শৈলকুপায় আ'লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমান দল থেকে বহিষ্কার

শৈলকুপায় আ'লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমান দল থেকে বহিষ্কার

সম্রাট হোসেন ,ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃঝিনাইদহের শৈলকুপায় পৌর নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমান খানকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।৩রা জানুয়ারী ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই এমপি ও সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু স্বাক্ষরিত একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

তৈয়বুর রহমান খান শৈলকুপা উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে ছিলেন। এবিষয়ে আরো নিশ্চিত করেছেন জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক আছাদুজ্জামান আছাদ।

দলীয় সূত্র জানায়, গত ৩০ ডিসেম্বর পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে কাজী আশরাফুল আজমকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন দেওয়া হয়। তৈয়বুর রহমান খান তা উপেক্ষা করে শৈলকুপা পৌর নির্বাচনে মেয়র পদে মনোনয়ন পত্র জমা দেন।

এদিকে জেলা নির্বাচন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, এই পৌরসভার বিগত নির্বাচনে তৈয়বুর রহমান খান আওয়ামী লীগের সমর্থন নিয়ে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। সেসময় চার হাজার ৪৫ ভোট পান তিনি। আর কাজী আশরাফুল আজম দলের বিদ্রোহী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেন এবং মেয়র নির্বাচিত হন। তিনি পান ৯ হাজার ৯১৯ ভোট। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন বিএনপির খলিলুর রহমান। তিনি পান ৫ হাজার ৩৩৬ ভোট।

এবারের নির্বাচনে ফের বিএনপির প্রার্থী হয়েছেন খলিলুর রহমান। ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে লড়বেন তিনি।

শৈলকুপা আওয়ামীলীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সংঘর্ষ

শৈলকুপা আওয়ামীলীগ ও  বিদ্রোহী প্রার্থীর সংঘর্ষ

সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃঝিনাইদহের শৈলকুপায় পৌর নির্বাচনের আওয়ামীলীগ মেয়র প্রার্থী ও বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থীর কর্মী সমর্থকদের মধ্যে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা, ধাওয়া- পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ৭ পুলিশ সদস্য আহত হয় বলে জানা যায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে নিতে পুলিশ ১২ রাউন্ড রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। সরোয়ার নামে বিদ্রোহী প্রার্থীর এক কর্মীকে মুমুর্ষ অবস্থায় ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী কাজী আশরাফুল আজমের অভিযোগ দল থেকে সদ্য বহিস্কৃত স্বতন্ত্র প্রার্থী তৈয়বুর রহমানের কর্মী সমর্থকরা নৌকা মার্কার মিছিলে হামলা চালায়। তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈয়বুর রহমান বলেন নৌকা মার্কার মিছিল থেকে তার নির্বাচনী অফিসে হামলা চালানো হয়। এ সময় সরোয়ার নামে তার এক কর্মী গুরুতর আহত হয়। স্থানীয়রা জানায়, রোববার সন্ধার দিকে নৌকা মার্কার একটি মিছিল চৌরাস্থা হয়ে সরকারী ডিগ্রী কলেজ রোড দিয়ে যায়। এসময় সময় আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমানের অফিস অতিক্রমের সময় উভয় মেয়র প্রার্থীর কর্মীদের মধ্যে ইট পাটকেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটে। ঘটনাটি জানা জানি হলে আওয়ামীলীগ প্রার্থী কাজী আশরাফুল আজম ও বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমানের কর্মী সমর্থকরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ায় লিপ্ত হয়। এ সময় পুলিশ উভয় পক্ষকে ছত্রভঙ্গ করতে ১২ রাউন্ড ফাকা রাবার বুলেট নিক্ষেপ ও ফাঁকা গুলি ছোড়ে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে সময় সংঘর্ষকারীদের ইটের আঘাতে ৭ পুলিশ সদস্য আহত হয় বলে পুলিশ দাবি করছে। আওয়ামী লীগের নৌকা মার্কার প্রার্থী কাজী আশরাফুল আজম বলেন, তার কর্মী সমর্থকরা একটি মিছিল নিয়ে কলেজ রোড দিয়ে যাওয়ার সময় দল থেকে বহিস্কারের রাগে বিদ্রোহী প্রার্থী তৈয়বুর রহমানের কর্মী সমর্থকরা তার মিছিলের উপর হামলা চালায়।  এ হামলার কথা অস্বিকার করে বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী তৈয়বুর রহমান খান বলেন নৌকা মার্কার মিছিল থেকে তার কলেজ রোডের স্কুল মার্কেটের নির্বাচনি অফিসে হামলা চালায় । শৈলকুপা থানার ওসি তদন্ত মহসিন হোসেন জানান, আওয়ামী লীগ ও স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামলা ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে নিতে পুলিশ ১২ রাউন্ড ফাকা রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। হামলাকারীদের ইটের আঘাতে ৭ পুলিশ সদস্য আহত হন। তবে এখনো কেও মামলার জন্য থানায় আসেনি।

কাপ্তাইয়ে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ১৮ টি মামলা দায়ের, জরিমানা আদায়

কাপ্তাইয়ে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ১৮ টি মামলা দায়ের, জরিমানা আদায়

সমীরণ চাকমা রাঙ্গামাটি প্রতিনিধিঃ-
কাপ্তাইে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে  সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ এর সংশ্লিষ্ট ধারা মোতাবেক ড্রাইভিং লাইসেন্স বিহিন এবং মোটর-সাইকেলে হেলমেট পরিধান না করায় বিভিন্ন যানবাহনের  বিরুদ্ধে ১৮ টি মামলা দায়ের করা হয় এবং সেইসাথে ৮৫০০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। 

রবিবার (৩ জানুয়ারী ) কাপ্তাই উপজেলার বড়ইছড়ি সদর এলাকার কাপ্তাই সড়কে  এই অভিযান পরিচালনা করেন কাপ্তাই উপজেলা নির্বাহী হাকিম ও উপজেলা নির্বাহী  অফিসার মুনতাসির জাহান।

এইসময় ইউএনও অফিসের অফিস সুপার মোঃ সিরাজুল ইসলাম সহ কাপ্তাই থানা পুলিশের সদস্যরা উপস্থিত থেকে উক্ত অভিযানে সহযোগিতা করেন।

রাবেয়া খাতুন সাহিত্যসম্রাজ্ঞী ছিলেন : মোমিন মেহেদী

রাবেয়া খাতুন সাহিত্যসম্রাজ্ঞী ছিলেন : মোমিন মেহেদী

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: বরেণ্য সাহিত্যিক রাবেয়া খাতুন-এর মৃত্যুতে গভীর শোক ও সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে শোক বিবৃতি দিয়েছেন নতুনধারা বাংলাদেশ এনডিবির চেয়ারম্যান মোমিন মেহেদী, প্রেসিডিয়াম মেম্বার বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান শান্তা ফারজানা, মহাসচিব নিপুন মিস্ত্রী প্রমুখ।

৩ জানুয়ারী রাতে প্রেরিত শোক বিবৃতিতে মোমিন মেহেদী বলেন, রাবেয়া খাতুন সাহিত্যসম্রাজ্ঞী ছিলেন। তাঁর মত করে বাংলা সাহিত্যকে আর কেউ এতটা পূর্ণতা দিতে পারবে না। তিনি নিপুন হাতে অবিরাম দিয়েছেন বাংলাদেশকে কথাসাহিত্য আর চলচ্চিত্র। তাঁর শূন্যস্থান কখনোই পূর্ণ হবার নয়।

উল্লেখ্য, সাহিত্যসম্রাজ্ঞী রাবেয়া খাতুনকে মোমিন মেহেদী তাঁর প্রথম উপন্যাস 'ডিভোর্স' ২০০০ সালে উৎসর্গ করেছিলেন। ৩ জানুয়ারী তাঁর মৃত্যুর খবর পেয়ে নতুনধারার রাজনীতিকগণ চ্যানেল আইতে যান এবং শোকাহতদের প্রতি সমবেদনা জানান।

যশোরের পুলিশ লাইন্স মাঠে অফিসার ও ফোর্সদের কীট প্যারেড অনুষ্ঠিত

যশোরের পুলিশ লাইন্স মাঠে অফিসার ও ফোর্সদের কীট প্যারেড অনুষ্ঠিত

আব্দুল জব্বার, স্টাফ রিপোর্টার:০৩-০১-২০২১ ইং তারিখে সকাল ০৮. সময়  যশোর পুলিশ লাইন্স মাঠে জেলা অফিসার ও ফোর্সদের কীট প্যারেড অনুষ্ঠিত হয়। 

যশোর জেলার পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন, এর নির্দেশক্রমে উক্ত কীট প্যারেড পরিদর্শন ও সালাম গ্রহণ করেন, মোহাম্মদ সালউদ্দিন শিকদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ), যশোর।

এসময় তিনি অফিসার ও ফোর্সদের সরকারি ইসূকৃত মালা-মাল পরিদর্শন করেন এবং এগুলোর যথাযথ ব্যবহারে গুরুতারোপ করেন। তিনি বলেন, আমরা একটি সুশৃংখল বাহিনী সুতরাং আমাদের পোষাকেও তার বহির প্রকাশ থাকতে হবে।
এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, মোহাম্মদ অপু সরোয়ার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর), যশোর, মোঃ আবুল কালাম আজাদ, আরআই পুলিশ লাইন্স, যশোর, আরও-১, রিজার্ভ অফিস যশোর সহ জেলা পুলিশের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাগণ।

পটিয়ার নাইখাইনে সমাজ সেবক দিদারুল আলম এর ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ

পটিয়ার নাইখাইনে সমাজ সেবক দিদারুল   আলম এর ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ
 চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার জঙ্গলখাইন ইউনিয়নে ১ জানুয়ারি নাইখাইন বিদ্যালয়ের কৃতি শিক্ষার্থীদের মাঝে  পটিয়া পৌরসভা মাইজভান্ডারি গাউসিয়া হক কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সহ দপ্তর সম্পাদক বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী ও আসন্ন জঙ্গলখাইন  ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের চেয়ারম্যান মনোনয়ন প্রত্যাশী মোহাম্মদ দিদারুল আলম ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ করেন।এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন দৈনিক জনতা ও দৈনিক ইনফো বাংলা'র সাংবাদিক সেলিম চৌধুরী 
 স্থানীয় ইউপি মেম্বার মোঃ রানা, সমাজ সেবক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম ও ডাবলু বড়ুয়া, এয়ার মোহাম্মদ বাবর, মোজাম্মেল হক আরোও অনেক উপস্থিত ছিলেন। ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণকালে দিদারুল আলম বলেন,
খেলাধুলা যুব সমাজকে মাদক মুক্ত করতে সহায়তা করে। তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহারে তরুণরা স্মার্ট ফোনে ঘরে বসে বিভিন্নভাবে সময় পার করছে। কিন্তু শারিরীক ব্যায়াম ও মাদকমুক্তে খেলাধুলার বিকল্প নেই। সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিতে হবে লেখা পড়া এর পরে খেলাধুলা তিনি আরোও বলেন,আমাদের দেশ উৎপাদনশীল দেশ। কিন্তু আমরা উৎপাদনমুখী নই। আমরা অন্যের তৈরি করা জিনিস বিক্রি করে দ্রুত ইনকাম করতে পছন্দ করি। একটা দেশের উন্নয়ন খুব দ্রুত হয় যখন সে দেশের মানুষ উৎপাদনমুখী হয়।যে বিষয়টিতে কোন ছাড় দেওয়া যাবে না একেবারেই, সেটা হলো আত্মবিশ্বাস। কেউই স্বয়ংসম্পূর্ণ নয়। সবার মাঝেই কোন না কোন ক্ষেত্রে কমতি থাকে। কিন্তু তার জন্য আত্মবিশ্বাস হারানো চলবে না। নিজের বিশ্বাস, দক্ষতা, সামর্থ্য, গুণাবলী ও নিজের বিচার-বুদ্ধির উপর যথেষ্ট বিশ্বাস রাখার মাধ্যমে আত্মবিশ্বাসের সুচনায় এগিয়ে চলতে হবে।

আশাশুনিতে চেয়ারম্যান ডালিমের বহিষ্কার ও গ্রেফতারের দাবীত মানববন্ধন

আশাশুনিতে চেয়ারম্যান ডালিমের বহিষ্কার ও গ্রেফতারের দাবীত মানববন্ধন

আহসান উল্লাহ বাবলু আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধিঃ আশাশুনির খাজরা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ নেওয়াজ ডালিমকে আওয়ামীলীগ থেকে বহিষ্কার ও গ্রেফতারের দাবীত মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়ছ। গতকাল (২ জানুয়ারি) বিকালে খাজরা ইউনিয়নের গদাইপুর বাজার মেইন সড়কে এ মানববন্ধনর আয়াজন করে খাজরা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগও সহযোগী সংগঠন। 

যুদ্ধাপরাধী রাজাকার মোজাহার উদ্দিনের পুত্র হত্যাসহ একাধিক মামলার আসামী, এলাকার ত্রাস, শাহ নেওয়াজ ডালিকে উপজলা আ'লীগের পদ ও দল থেকে বহিষ্কার, রাজাকারর তালিকা (স্রিয়াল নং ১২) থাকা মোজার উদ্দিনের নাম বাদ না যায় এবং ডালিমকে গ্রেফতারের দাবিত আয়াজিত মানববন্ধন চলাকাল বক্তব্য রাখেন, ইউনিয়ন আ'লীগর সভাপতি সাবেক ইউপি চয়ারম্যান আলহাজ্ব রুহুল কুদ্দুছ মাল্যা, সাবেক মেম্বর ইসমাইল হোসেন, প্রভাষক জাকিরুল ইসলাম, মাসুদুর রহমান প্রিন্স প্রমুখ। বক্তাগণ বলেন, চেয়ারম্যান ডালিম ৫টি বামা বিষ্ফোড়ন মামলা, ৩টি হত্যা-ধর্ষণ ও আগুন পুড়িয় মারা মামলা এবং একাধিক চাঁদাবাজী মামলার আসামী। তিনি ও তার পোষা স্ত্রাসীরা প্রতি বছর এলাকার ঘের মালিকদের থেকে ৫০ হাজার থেকে এক লক্ষ করে টাকা চাঁদা আদায় করে আসছে। ইউনিয়নের উনয়ন প্রকল্পের টাকা ও সরকারি সহায়তার কোটি কোটি টাকা লুটপাট ও আত্মসাৎ করেছে। তার ভাইরা সবাই বিএিনপি ও জামাতর নেতাকর্মী। তার অত্যাচার এলাকার মানুষ চরমভাবে অতিষ্ঠ হয়ে ও মিথ্যা মামলায় জর্জরিত হয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। তার লাঠিয়াল ও স্ত্রাসী বাহিনী প্রকাশ্যে নির্যাতন, চাঁদাবাজী, দাঙ্গা-হাঙ্গামা, লুটপাটের ঘটনা ঘটিয়ে এলাকায় ত্রাসর রাজত্ব কায়েম করেছে। নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান হওয়ায় তার কর্মকান্ড আওয়ামীলীগ তথা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার পাহাড় পরিমান সুখ্যাতিক ম্লান কর দিয়েছে। বক্তাগণ অবিলম্বে অপরাধী ডালিমক গ্রেফতার, উপজেলা আওয়ামীলীগ থেকে বহিষ্কার ও নৌকা প্রতীক না পেতে পারে সেব্যাপারে উর্দ্ধতন আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।

শীতার্ত মানুষের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণ করলো সোস্যাল কেয়ার অব নেশন

শীতার্ত মানুষের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণ করলো সোস্যাল কেয়ার অব নেশন

মোঃরেজাউল ইসলাম শাফি,কুলাউড়া উপজেলা প্রতিনিধ:কুলাউড়ার অন্যতম বৃহৎ এবং জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন সোস্যাল কেয়ার অব নেশন প্রতি বছরের ধারাবাহিকতায় ইউনিয়ন ভিত্তিক শীতবস্ত্র বিতরণের কর্মসূচির অংশ হিসেবে ১ জানুয়ারি কর্মধা ইউনিয়নের প্রায় শতাধিক শীতার্থ পরিবারের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণের অনুষ্ঠান আয়োজন করে।

ইংরেজি নতুন বছরের প্রথম দিনে শুক্রবার বিকেলে কর্মধা ইউনিয়নের কর্মধা উচ্চ বিদ্যালয়ে এই শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানটি আয়োজন করা হয়।সংগঠনের সভাপতি সালাউদ্দিন আল সালোক এর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক মুক্তার আহমেদ এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন সংগঠনের সদস্য সাইফুর রহমান সিদ্দিক।

প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন নবীন চন্দ্র সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সংগঠনের উপদেষ্টা আমির হোসেন।এছাড়াও বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন শাহ সুন্দর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল কাইয়ুম, সংগঠনের উপদেষ্টা ডা: হেমন্ত চন্দ্র পাল, লংলা অাধুনিক কলেজের ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক গোলাপ মিয়া ও আক্তার হোসেন, স্থানীয় বিশিষ্ট সংগঠক বাবুল মিয়া,সংগঠনের পরিচালনা পর্ষদের সদস্য অাজিজুল ইসলাম উজ্জ্বল, সোহেল আহমেদ, জামিল আহমেদ চৌধুরী, মোহাইমিন ইসলাম মাহিন, সফি আহমেদ,সংগঠনের নেতৃবৃন্দের মধ্য থেকে বক্তব্য রাখেন সৈয়দ অাজিজুল ইসলাম, ফয়সাল অাহমেদ,তাহমিদ খান শাওন,অলক চন্দ,সুমন অাহমেদ,সাঈদ অাহমেদ। 

বক্তব্য পর্ব শেষেই সুশৃঙ্খল ভাবে শীতার্থ মানুষের হাতে  শীতবস্ত্র গুলো তুলে দেন সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা।শিশু থেকে শুরু করে বৃদ্ধ -বৃদ্ধারা সকলেই বস্ত্র হাতে পেয়ে আনন্দ প্রকাশ করেন এবং সংগঠনের সদস্যদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।
সিনিয়র সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সায়েম অাহমেদ,  অাশিকুল ইসলাম বাবু,মেহেদি হাসান,মাজহারুল ইসলাম টিপু।
সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন  সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদুর রহমান তানজুল,ত্রাণ ও দুর্যোগ সম্পাদক মাসুদ অাহমেদ,শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক সৈয়দ তানিম,তুহিন অাহমেদ,সৈয়দ অাবির হোসেন,মাছুম বিল্লাহ,সৈয়দ তুহিন,সৈয়দ অাশফাক উদ্দিন (সিয়াম),সৈয়দ রাকিব অাহমেদ প্রমুখ।

গাবুরায় পিতৃ পরিচয় না পেয়ে স্কুলে ভর্তি হলেন শিশু নিলা

গাবুরায় পিতৃ পরিচয় না পেয়ে  স্কুলে ভর্তি হলেন শিশু নিলা

শ্যামনগর প্রতিনিধি: সাতক্ষীরা শ্যামনগর উপজেলার গাবুরা ইউনিয়নের খলিসাবুনিয়া গ্রামের, আলহাজ্ব জি এম মাকছুর রহমানের ছোট পুত্র নব্যলীগ গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহবায়ক  জি এম নাজমুল হাসান নয়নের মেয়ে পিতৃ পরিচয়হীন হয়ে স্কুলে ভর্তি হয়েছে।

৮নং ওয়ার্ডের চকবারা গ্রামের অসহায় আবু সামা গাইনের মেয়ে ডলি আক্তার দীর্ঘদিন যাবত নাজমুল হাসান নয়নের বাড়িতে কাজ করে আসছিল কিন্তু দূর্বলতা ও অসহায়ের  সুযোগ নিয়ে পালাক্রমে ডলি আক্তার কে শারিরীক নির্যাতন ও শ্লীলতাহানি করে এবং ওই মেয়েটি কে জোর করে  ঘরে বন্দী রেখে ধর্ষণ করে, এবং মেয়েটির পেটে অবৈধ সন্তান যায়।
শিশু নিলার মায়ের অন্ধকার জীবনে পুরুষের ঔরসে অপ্রত্যাশিতভাবেই নিলার জন্ম। ৪-১-২০১৪ ইং সালের জন্মের পর থেকে নানা প্রতিকুলতার মাঝে প্রকৃতির নিয়মেই ওর একটু একটু করে বেড়ে ওঠা।

যখন নিলার স্কুলে যাওয়ার বয়স, মা তার শত কষ্টের মধ্যেও ভর্তি করাতে যান স্কুলে। কিন্তু নিয়মের বেড়া-জালে আটকে যায় নিলার স্কুলের খাতায় নাম লিপিবদ্ধ করা। কারণ ওর নেই কোনো পিতৃ পরিচয়।

এসব ফুটফুটে শিশুদের পৃথিবীতে আসার পেছনে তাদের কোনো হাত ছিল না। স্বাভাবিক অন্যান্য শিশুদের মত তাদেরও শিক্ষাসহ সকল অধিকার রয়েছে। কিন্তু কোনো অধিকারের ছিটেফোঁটাও ওরা পাচ্ছে না। 

এরকম পিতৃ পরিচয়হীন শিশুদের অনিশ্চিত ভবিষ্যতের কথা কেউ চিন্তা করে না।
গাবুরা ইউনিয়নে অপকর্মের বিভিন্ন বয়সের সহস্রাধিক শিশু রয়েছে।

দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী শিক্ষা, বিয়েসহ প্রায় সব জায়গাতেই মৌলিক অধিকার প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে নিজের নামের পাশাপাশি বাবা ও মায়ের নামের দরকার হয়। এ ক্ষেত্রে সন্তানদের নির্দিষ্ট কোনো পিতৃ পরিচয় নেই। এতে তারা সামাজিক নিরাপত্তাহীনতার পাশাপাশি আইনি জটিলতায় ভুগছেন।পিতার পরিচয় না থাকায় এ সকল শিশুরা অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।

উল্লেখ্য ০৩-০১-২০২১ইং তারিখে নয়নের মেয়ে নিলা আক্তার কে প্রাইমারি স্কুলে ভর্তি করতে গেলে স্কুলের শিক্ষক মন্ডলীরা তার পিতার পরিচয় জানতে চাইলে মেয়েটি ভয়ে নাম না বলায় তার ভর্তি নেওয়া হয়নি। এমতাবস্থায় স্থানীয় জনপ্রতিনিধি সহ সকলের কাছে উক্ত অসহায় মেয়েটির ভবিষ্যৎ নিয়ে তাদের পরিবার  অনেক কষ্টে দিনযাপন করছে।

নড়াইলের পল্লীতে রেজিস্ট্রেশন বিহীন সমিতি ,জনগনের লাখ লাখ টাকা আত্মসাৎ

নড়াইলের পল্লীতে রেজিস্ট্রেশন বিহীন সমিতি ,জনগনের লাখ লাখ টাকা আত্মসাৎ

মো: আজিজুর, বিশ্বাস ষ্টাফ রিপোর্টার নড়াইল:নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার দিঘলিয়া ইউনিয়নের চরদিঘলিয়া গ্রামে লক্ষ্মী ভান্ডার সমিতি নামে  একটা প্রকল্প, সরকারি রেজিস্ট্রেশন ছাড়া সেবামূলক কাজের কথা বলে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। 

 গোপন সূত্রে জানা যায়, এই প্রতিষ্ঠিানটি দীর্ঘ এক বছর যাবত নড়াইল - কালিয়া লোহাগড়া - ও গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানী এলাকা থেকে বিভিন্ন মানুষের সাথে নলকূপ দেয়ার কথা বলে প্রতারণা করে লাখ লাখ টাকা আত্মসাৎ করে আসছে।

এই সমিতির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন সম্রাট কুমার ঘোষ, এবং সাধারণ সম্পাদক এর দায়িত্ব আছেন ইমরান, ক্যাশিয়ারের দায়িত্ব আছেন শাকির মল্লিক, এবং এই লক্ষী ভান্ডার সমিতির কার্যনির্বাহী সদস্য ছিলেন বিউটি রানী মন্ডল, বিউটি রানী মন্ডলের সাথে সাংবাদিকদের কথা হলে তিনি বলেন, আমি দীর্ঘ যাবত, লক্ষী ভান্ডার সমিতির কার্যনির্বাহী সদস্য ছিলাম, সেখানে দায়িত্ব থাকা অবস্থায় আর্সেনিকমুক্ত গভীর নলকূপ স্বল্পমূল্যে মানুষদের দিয়ে এসেছি, বিউটি রানী আরো বলেন, ৩/৪ মাস আগে ৩৭/ টা নরমাল  নলকূপ, ও ১৭টা গভীর নলকূপের জন্য টাকা লক্ষী ভান্ডার সমিতির সভাপতি সম্রাট কুমার ঘোষ কে দেই, এখন আমি তাকে টিউবওয়েলের কথা বললে সে আমাকে বলে, তুমি আমার সংগঠনের কেউ না, তোমাকে ও ইমরান কে  আমার সমিতি থেকে পরিষ্কার করা হয়েছে।আমার সাথে তোমরা বেশি বাড়াবাড়ি করো না, বলে বিভিন্ন ভয়-ভীতি দেয়। সাংবাদিকদের বিউটি রানী আরো বলেন, তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য আমি লক্ষী ভান্ডার সমিতির থেকে কিছু টিউবওয়েল এবং বড় পুজোর সময় কিছু টাকা পূজামণ্ডপে দিয়েছি সেটা বিভিন্ন প্রিন্ট পত্রিকাতে নিউজ হয়েছে। সেখানে আমি সদস্য আছি, আর এখন আমাকে পরিষ্কার করল এটা কিভাবে হলো। 

 এখন সভাপতি আমার থেকে টাকা পয়সা নিয়ে আমাকে টিউবওয়েল গুলো না দিয়ে, মানুষদের মাঝে প্রচার করছে আমাকে সমিতি থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তাহলে আমার এই টাকা পয়সার কি হবে, আমি সাধারণ জনগণের টাকা নিয়েছি তাদের আমি কি বলবো আর কি ভাবে টাকা ফেরত দেব।  
এই বিষয়ে মুঠোফোনে প্রতিবেদক এর সাথে লক্ষী ভান্ডার সমিতির সভাপতি সম্রাট ঘোষ এর সাথে কথা হলে তিনি বিভিন্ন কথা দিয়ে এড়িয়ে যেতে চাই ও বলেন পরে দেখা করে কথা হবে।

পটিয়া পৌর ৩নং ওয়ার্ড শ্রমিকলীগের সন্মেলনে নতুন কমিটি ঘোষণা

পটিয়া পৌর ৩নং ওয়ার্ড  শ্রমিকলীগের     সন্মেলনে নতুন কমিটি ঘোষণা

সেলিম চৌধুরী পটিয়াঃ-  পটিয়া পৌরসভা ৩নং ওয়ার্ড জাতীয় শ্রমিকলীগ এি-বার্ষিক সন্মেলন সম্পন্ন হয়েছে। ২ জানুয়ারি বিকেলে আবদুর রহমান সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে আয়োজিত সন্মলনে সভাপতিত্ব করেন মোঃ জিল্লুর রহমান।  সন্মেলন উদ্বোধন করেন সাবেক পটিয়া পৌর আ'লীগ সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্বা শামসুদ্দিন আহমদ। মোঃ হেলান উদ্দিন এর সঞ্চলনায় এতে প্রধান অতিথি ছিলেন পৌর আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি নাছির উদ্দীন পদ্বা, বিশেষ অতিথি ছিলেন  পৌর আওয়ামীগ সদস্য সাবেক ছাএনেতা  গিয়াস উদ্দিন আজাদ, প্রধান বক্তা ছিলেন  পটিয়া পৌর জাতীয় শ্রমিকলীগ সভাপতি শফিকুল ইসলাম শফি, বিশেষ বক্তা ছিলেন  সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হক মাজু, হাজী  সাইফু উদ্দিন,  জসিম উদ্দিন  আগুন চৌধুরী, মোরশেদ, রিয়াদ, এম এ হাসান বাপ্পি, মোঃ আজম, প্রমুখ। সভায় সর্বসম্মতিক্রমে মোঃ জিল্লুররহমান সভাপতি  মোঃ হেলাল উদ্দিন'কে সাধারণ সম্পাদক করে ৩ নং ওয়ার্ড জাতীয় শ্রমিকলীগ ২১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করা হয়। সভায় প্রধান অতিথি নাছির উদ্দীন বলেন, শ্রমিক ছাড়া দেশ অচল কোন মানুষ শ্রমিক'কের বাইরে নয় । তাই এ সংগঠনের গুরুত্ব অনেক বেশি। সভায় জাতীয় সংসদের হুইপ পটিয়ার  এমপি আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরীর রোগমুক্তি কামনায় বিশেষ  মোনাজাত করা হয়.

কালীগঞ্জ উপজেলাসহ লালমনিরহাট জেলার সর্ব স্তরের মানুষকে ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা

কালীগঞ্জ উপজেলাসহ লালমনিরহাট জেলার সর্ব স্তরের মানুষকে  ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা

মোঃ রাশেদুল ইসলাম রাশেদুল ,উপজেলা প্রতিনিধি: ইংরেজী নববর্ষ উপলক্ষে উপজেলাবাসী সহ দেশ-বিদেশে যারা কর্মরত আছে সবাইকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন জনাব শামীম আহমেদ জিলানী। 

নতুন বছরে তিনি সকলের সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করেন।
তিনি আশা প্রকাশ করেন, নতুন বছর সবার জীবনের সকল প্রকার ব্যর্থতা ও গ্লানি মুছে দিবে এবং বয়ে আনবে অনাবিল সুখ,শান্তি ও সমৃদ্ধি। ২০২১ সালে সম্ভাবনার দ্বার উন্মুক্ত করে সবার জন্য আরও অর্জন ও সাফল্যের বছর হয়ে ওঠবে।
আমরা চাই নতুন বছর সবাই কাধে কাধ মিলিয়ে একে অন্যের দুখ কষ্ট ভাগাভাগি করে দেশটাকে গড়ে তুলি। আর মানুষের প্রতি হই শ্রদ্ধাশীল। তবেই আমরা নতুন বছররের স্বপ্নটাকে সত্যি করে তুলতে পারবো।

শুভেচ্ছান্তেঃ
শামীম আহমেদ জিলানী
সহকারী শিক্ষক, হাজেরাবাগ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, কালীগঞ্জ, লালমনিরহাট।

ইঁদুর গর্তে রিজিকের সন্ধানকারী সোহেলের পাশে মুকতাদির হোমিও চিকিৎসা কেন্দ্র

ইঁদুর গর্তে রিজিকের সন্ধানকারী সোহেলের পাশে মুকতাদির হোমিও চিকিৎসা কেন্দ্র

হাসান সাদী,নাগরপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধিঃ
নয়া দিগন্ত সহ  বিভিন্ন সংবাদ পত্রে সংবাদ প্রকাশের পর সেই সোহেলের পাশে দাঁড়ালেন টাঙ্গাইলের নাগরপুরের মুকতাদির হোমিও চিকিৎসা কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও কবি নজরুল উচ্চ বিদ্যালয়ের রিসোর্স টিচার(ইংরেজী) ডা. এম. এ. মান্নান।

 কয়েকদিন আগে গয়হাটা ইউনিয়নের ঘুনি এলাকার শিশু সোহেলকে নিয়ে ধানি জমির ইঁদুরের গর্তে রিজিকের সন্ধানের সংবাদ অনলাইন ও প্রিন্ট সংস্করনে প্রকাশ হয়। সংবাদ প্রকাশের জেরে আজ রোববার (৩ জানুয়ারী) সকালে ওই শিশুর প্রয়োজনীয় শিক্ষা উপকরণ নিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছেন ডা.এম.এ.মান্নান।উপজেলার সদর ইউনিয়নের দুয়াজানী কলেজপাড়া এলাকার আহাম্মদ হোসেন (অবসর প্রাপ্ত সরকারী চাকুরিজীবী)'র সুযোগ্য দুই ছেলে ও দুই মেয়ে সন্তানদের মধ্য সমাজ সেবায় নিয়োজিত তৃতীয় সন্তান ডা. এম.এ মান্নান।

এ সময় সোহেল ও তার পরিবারের হাতে এক বছরের শিক্ষা উপকরণ খাতা, কলম, পেন্সিল,জ্যামিতি বক্স, মোমবাতি, শুকনো খাবার, করোনা মোকাবিলার জন্য মাক্স, হ্যান্ডস্যানিটাইজার সহ নগদ টাকা ও ফ্রী চিকিৎসার স্বাস্থ্য সেবার কার্ড তুলে দেন।

এতে ওই শিশু সোহেলের মুখে এক ঝলক অমূল্য হাসি ফুটে উঠে। এমন উদারতা দেখে সোহেলের বাবা মার মুখেও হাসি উপস্থিতদেরও মন কেড়ে নেয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কবি নজরুল উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র সহকারী শিক্ষক রাখাল চন্দ্র আচার্য্য, উপজেলা কৃষি উপসহকারী কর্মকর্তা মনিরুল ইসলাম ও মোঃ ছরোয়ার হোসাইন, সাংবাদিক ও  স্থানীয় মুরুব্বি প্রমুখ।

সোহেলের বাবা আলতাব হোসেন বলেন, এত কষ্ট করে জীবন যাপন করতেছি দেখার কেউ ছিল না। ছেলে এ ভাবে ঘুরে ফেরে আয় করে জানতাম কিন্তু জীবনের ঝুঁকি নিয়ে করবে তা জানতাম না।

শিশু সোহেল বলে, আর ধান, কচুর মহি, লতি বা সুপারি কিছুই কুরাবো না। মন দিয়ে পড়ালেখা করে মা বাবার পাশে থাকতে চাই। আপনাদের দোয়া এবং সহযোগিতা চাই।

এ বিষয়ে ডা.এম.এ মান্নান বলেন, নিউজটি দেখে তার পাশে দাঁড়িয়ে ভাল লাগছে। যদিও বিভিন্ন সময় বিভিন্ন অসহায় ছাত্র ছাত্রীদের শিক্ষা উপকরণ, বৃত্তি দিয়ে আসছি এবং করোনার শুরু থেকেই করোনা মোকাবিলায় মাক্স, হ্যান্ডস্যানিটাইজারসহ প্রয়োজনীয় মেডিসিন  নাগরপুর মুকতাদির হোমিও চিকিৎসা কেন্দ্র থেকে বিতরণ করেছি এবং এ বিতরণ ও প্রচার অব্যাহত আছে।ওই শিশুর এক বৎসরের যাবতীয় হোমিও চিকিৎসা সেবা আমার প্রতিষ্ঠান থেকে বিনা মূল্যে দেওয়া হবে বলেও বলেন তিনি।

শিক্ষক রাখাল চন্দ্র আচার্য্য বলেন, কোমলমতি শিশুদের হাতের বই খাতা কলম ছাড়া অন্য কোন হাতিয়ার মানায় না। সমাজে হাজারো অসহায় সোহেল ছরিয়ে আছে তেমনি মান্নানের মত ছরিয়ে আছে হাজারো মানবতার ফেরিওয়ালা। চাইলে আমরা এগিয়ে আসতে পারি। ওই শিশু যদি আমার কর্মরত উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তি হয় তবে তাকে ফ্রি পড়াশোনার ব্যবস্থা করবেন বলেও জানান তিনি।

ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপির বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত

ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপির বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত

খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার,খুলনা ব্যুরো প্রধান:ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপি'র বর্ধিত সভা অনুষ্টিত হয় জেলা বিএনপি কার্যালয়ে রবিবার সকালে। 

উক্ত বর্ধিত সভায় সভাপতিত্ব করেন, ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপি'র আহবায়ক, আলহাজ্ব এ্যাডঃ মোঃ কামাল আজাদ পান্নু।
প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক ঝিনাইদহ জেলা জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সভাপতি ও আইনজীবী সমিতির একাধিকবার নির্বাচিত সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক, ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি'র আহবায়ক, বীর মুক্তিযোদ্ধা,অধ্যক্ষ, জননেতা এ্যাডঃ এস এম মশিয়ুর রহমান।

প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,ঝিনাইদহ ২ আসনের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বিএনপি মনোনীত প্রার্থী, হরিনাকুণ্ডু উপজেলা পরিষদের সাবেক সুযোগ্য সফল চেয়ারম্যান, সাবেক ছাত্রনেতা ও জেলা বিএনপির সদস্য সচিব, জননেতা আলহাজ্ব এ্যাডঃ এম এ মজিদ।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি'র যুগ্ম আহ্বায়ক,  মোঃ আক্তারুজ্জামান সহ ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপি'র সকল যুগ্ম আহ্বায়ক বৃন্দ। এসময় আরো উপস্হিত ছিলেন হরিনাকুণ্ডু উপজেলা বিএনপি'র আহবায়ক, মোঃ আবুল হাসান মাস্টার, হরিনাকুণ্ডু পৌর বিএনপি'র আহ্বায়ক, আগামি ৩০ শে জানুয়ারি আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনের বিএনপি'র মনোনীত প্রার্থী, মোঃ জিন্নাহতুল হক খান, কোটচাঁদপুর পৌর বিএনপি'র আহ্বায়ক, আগামি ৩০ শে জানুয়ারি আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনের বিএনপি'র মনোনীত প্রার্থী,মোঃ সালাউদ্দিন বুলবুল সিডল। সহ ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ১৭ টি ইউনিয়ন বিএনপি'র শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। 
সঞ্চালনা করেন, ঝিনাইদহ সদর উপজেলা বিএনপি'র সদস্য সচিব, মোঃ আলমগীর হোসেন আলম।

আমেরিকান প্রবাসীর লালমনিরহাটবাসী সহ দেশের সকল স্তরের মানুষকে ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা

আমেরিকান প্রবাসীর লালমনিরহাটবাসী সহ দেশের সকল স্তরের মানুষকে ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা

মোঃ রাশেদুল ইসলাম রাশেদ,উপজেলা প্রতিনিধিঃ নতুন বছর সবার জীবনে
বয়ে নিয়ে আনুক অনাবিল সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি।

ইংরেজি নতুন বছরের শুভেচ্ছা বার্তায় দেশবাসীকে ইংরেজি নববর্ষের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ও আমেরিকান নাগরিক জনাব মোঃ আজহার হোসেন।
happy new year 2021
নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

তিনি কপোতাক্ষ নিউজ পত্রিকার সাংবাদিককে মুঠোফোনে জানিয়েছেন, ২০২০ সালটি ছিল অত্যন্ত ভয়াবহ। পুরো পৃথিবীতে তাণ্ডব চালিয়ে লণ্ডভণ্ড করে দিয়েছে। এই বছরে আমাদের অনেক পরিচিত ব্যাক্তি না ফেরার দেশে চলে গেছে - মহান আল্লাহ তায়ালা যেন তাদের সকলকে জান্নাতবাসী করে।

তিনি আরো বলেন "অতীতকাল যত বড় কালই হোক নিজের সম্বন্ধে বর্তমান কালের একটা স্পর্ধা থাকা উচিৎ। মনে থাকা উচিৎ তারমধ্যে জয় করবার শক্তি আছে"।

শুরু হলো আরেকটি ইংরেজি নতুন বছরের যাত্রা। তাই সকল ভাইবোন, আত্নীয়স্বজন এবং লালমনিরহাট জেলাবাসী সহ বাংলাদেশের সর্ব স্তরের মানুষ এবং সকল শুভাকাঙ্ক্ষীদের প্রতি রইল ইংরেজি নতুন বছরের শুভেচ্ছা।

আমাদেরই কুড়ে ঘরে,
আসুন সবাইমিলে নতুন বছরকে বরন করে নেই, আর মেতে উঠি আনন্দে।

সবাইকে আবারো নতুন বছরের অনেক অনেক শুভেচ্ছা, ভালোবাসা, ও প্রাণঢালা অভিনন্দন।  পরিশেষে সকলের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি।


শুভেচ্ছান্তে
মোঃ আজহার হোসেন
আমেরিকান প্রবাসী ও নাগরিক

নাগেশ্বরীতে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল যুবকের

নাগেশ্বরীতে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল যুবকের

মোঃআকাশ সরকার,কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃকুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে সড়ক দুর্ঘটনায় সোহেল রানা (৩০) নামের এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। সে উপজেলার রামখানা ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য শিয়ালকান্দা এলাকার মৃত ফজলুল হকের ছেলে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান ২ জানুয়ারি শনিবার সন্ধ্যায়, কুড়িগ্রাম ভূরুঙ্গামারী সড়কের নাগেশ্বরী কমিল (এমএ) মাদরাসার সামনে করতোয়া কুরিয়ার সার্ভিসের একটি গাড়ির সাথে ধাক্কা লেগে গুরুতর আহত হয়।
পরে তাকে উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেলে নেয়ার পথে রাত ৯ টার দিকে মারা যায়।
নাগেশ্বরী থানার অফিসার ইনচার্জ রওশন কবীর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

বগুড়ায় শীতের কুয়াশা ভেজা মাঠে সরিষা ফুলে হলুদের বাহার

বগুড়ায় শীতের কুয়াশা ভেজা মাঠে সরিষা ফুলে হলুদের বাহার

মোঃ সবুজ মিয়া বগুড়া প্রতিনিধিঃনিচে সবুজ উপরে হলুদ। শীতের কুয়াশা ভেজা মাঠে সরিষার ফুল ফুটেছে। বগুড়ায় মাঠের পর মাঠ এখন হলুদ রঙে সেজেছে। কুয়শার জলরাশি ভেদ করে সবুজ মাঠের দেশে এবার হলুদের সমারাহ। যেন চিত্রশিল্পি রং তুলি দিয়ে আল্পনা এঁেকছে হলুদের।কৃষি অফিস বলছে, শীত যতটা বাড়বে ততই ফলন বাড়বে বগুড়ায়। আর সরিষা চাষিরা স্বপ্ন নিয়ে বুক বেঁধে আছে ভাল ফলন পাওয়ার আশায়। চলতি রবি মওসুমে বগুড়া জেলায় এবার লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে অধিক জমিতে সরিষা চাষ হয়েছে। আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে এবার বাম্পার ফলন আশা করছেন সরিষা চাষীরা।

বগুড়া কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর বগুড়ার উপ পরিচালকের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, বগুড়া জেলায় এবার ২৩ হাজার ৩৮৫ হেক্টর জমিতে সরিষা চাষের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এতে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৩৭ হাজার ৬৫০ মেট্রিনক টন সরিয়ার তেল। কিন্তু, আবহাওয়া ভালো থাকায় চাষ হয়েছে ২৬ হাজার ৯৬৫ হেক্টর জমিতে। প্রতি হেক্টরে সরিয়ার তেল উৎপাদন ধরা হয়েছে ১ দশমিক ৪৬ মেট্রিক টন। গত বছর জেলায় চাষ হয়েছিল ২৩ হ্জাার ১১৫ হেক্টর। এবছর চাষের জমি বেড়েছে। সে কারণে ফলনও বেড়ে যাবে। এর সাথে শীত জেকে বসায় সরিষার ভাল ফলনের কথা বলছে সরিষা চাষিরা। কৃষি অফিসের মতে জাতীয় ফলন লক্ষ্যমাত্রার চেয়েও জেলায় ফলন বেশি পাওয়া যায়।

বগুড়ার কৃষি কর্মকর্তারা জানান, বগুড়ায় উচ্চ ফলনশীলজাত ও আবহাওয়ার কারণে উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে ভাল ফলন পাওয়া যাবে। অন্য ফসলের মত সরিষা চাষ বেশ লাভ জনক। বাড়তি ফসল হিসেবে এ অঞ্চলে সরিষা চাষ বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। সরিষা চাষ করে অনেক কৃষকের ঘুরছে ভাগ্যের চাকা। সংশ্লিষ্ট বিভাগের সহযোগিতা অব্যাহত থাকলে এবং সরিষার ভালো মূল্য পেলে এ অঞ্চলে সরিষা চাষের পরিধি আরও বৃদ্ধি পাবে বলে আশা করছেন কৃষিবিদরা। বগুড়ার সরিষা চাষিরা জানান, শীত আসবার আগে থেকেই স্থানীয় চাষিরা শীতকালিন সবজির পাশাপাশি সরিষার চাষ করে থাকে। দেশে সরিষার চাহিদা এবং বাজারে সরিষার দাম থাকায় চাষিরা উৎসাহিত হয়ে সরিষা চাষ করে যাচ্ছে। জমিতে লাগানো সরিষার হলুদ ফুলের অপরূপ দৃশ্য মাঠে-প্রান্তরে শোভা পাচ্ছে। 

যশোরের চৌগাছায় আবারও ভাটার ট্রাক কেড়ে নিল এক স্কুল ছাত্রের প্রাণ

যশোরের চৌগাছায় আবারও ভাটার ট্রাক কেড়ে নিল এক স্কুল ছাত্রের প্রাণ

সুমন হোসেন, যশোর জেলা প্রতিনিধি: শনিবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে চৌগাছা-ঝিকরগাছা সড়কের জাহাঙ্গীরপুর বকুলতলায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।
ইটভাটার ট্রাকে পিষ্ট হয়ে মৃত ওই শিশু শিক্ষার্থীর নাম ওয়ালিদ হাসান (৯)।। উপজেলার ধুলিয়ানী ইউনিয়নের ফতেপুর গ্রামের হবিবর রহমানের ছেলে ওয়ালিদ ফতেপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেণির ছাত্র।

প্রত্যক্ষদর্শী ও নিহত শিশুটিকে উদ্ধার করে চৌগাছা হাসপাতালে নিয়ে আসা দুই ব্যক্তির ভাষ্যমতে, বাচ্চাটি একটি সাইকেলে চালিয়ে চৌগাছার দিকে আসছিল। ভাটার ট্রাকটি চৌগাছা থেকে ঝিকরগাছার দিকে যাওয়ার পথে তাকে চাপা দিয়ে পিষ্ট করেই পালিয়ে যায়। এসময় তারা দুজন দ্রুত উদ্ধার করে বাচ্চাটিকে চৌগাছা হাসপাতালে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক বাচ্চাটিকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

শিশুটির চাচা ইব্রাহিম হোসেন বিলাপের সুরে বলেন, সকালে শিশুটি হাম-রুবেলা টিকা নিতে ভয় পাচ্ছিল। আমি জোর করে টিকা দিয়ে নিয়ে আসলাম। আর সেই ভাতিজাই দুপুর না হতে লাশ হয়ে গেল?
ট্রাক চালকের বিরুদ্ধে কোনো মামলা দায়ের করা হয় নি।  এমনকি কোনো ক্ষতি পূরনও বিবেচনা করা হয়নি বলে জানা গেছে। জানা গেছে বাচ্চাটি পরিবারের একমাত্র সন্তান।

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগের কর্মী সভায় দুর্জয়

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগের কর্মী সভায় দুর্জয়

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ-জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার এক কর্মী সভা দক্ষিণ জেলার সাধারণ সম্পাদক নাজিম উদ্দীন এর সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক শফর আলী চৌধুরীর পরিচালনায় চন্দনাইশস্ত রহিম কমিনিউটি সেন্টারে  অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি  এডভোকেট আসাদুজ্জামান দূর্জয়। বিশেষ অতিথি ছিলেন মিসেস উম্মী জামান প্রেসিডিয়াম সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্বা প্রজন্মলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।

প্রধান বক্তা ছিলেন আলমগীর আলম সাংগঠনিক সম্পাদক বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি।

বিশেষ বক্তা মোহাম্মদ মীর হোসেন যুব বিষয়ক সম্পাদক বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি বক্তব্য রাখেন দক্ষিণ জেলার সহ সম্পাদক ফরিদুল আলম,পটিয়া উপজেলা সভাপতি সৈয়দ মহিউদ্দিন সাগর, সিনিয়র সহ- সভাপতি এস এম সাইফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মাদ ইদ্রিস, লোহাগড়া উপজেলা সভাপতি গোলাম মোহাম্মদ দস্তগীর, দোলন দাশ,চন্দনাইশ উপজেলা সাধারন সম্পাদক সৈকত দাশ,পটিয়া পৌরসভার সাবেক সভাপতি আবু মাসুদ চৌধুরী, সহ সভাপতি মাহমুদুল হক সুমন, সাংগঠনিক সম্পাদক হাসান মানিক,জাহেদুল ইসলাম,ফয়সাল,ইকবাল হোসেন,রহিম,ইমন,জিসান,নাঈম,রফিক প্রমুখ।এতে প্রধান অতিথি বলেন বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ আজ সারাদেশে সুসংগঠিত রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনার কারা মুক্তি আন্দোলনে এ সংগঠন রাজ পথে ছিল আজও এগিয়ে চলছেন ঐক্যবদ্ধভাবে। রাজনীতিতে কর্মীরাই হল আমাদের  প্রান। তাই আগামীতে যারা কর্মীদের ভালবাসবেন বিপদে পাশ্বে থাকবেন এমন সংগঠককেই নেতা বানানো হবে।তিনি সংগঠনের চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সাংগঠনিক কর্মকান্ডের প্রশংসা করেন এবং আগামীতে যোগ্য মেধাবী  তরুনদের দিয়ে একটি শক্তিশালী কমিটি গঠন করে সংগঠন এগিয়ে নেওয়ার আহবান জানান।