করোনা মোকাবিলায় মাঠে নেমেছে মেহেরপুর ডিবি পুলিশ

করোনা মোকাবিলায় মাঠে নেমেছে মেহেরপুর ডিবি পুলিশ
মাঠে নেমে প্রচারভিযান পরিচালনা করছেন ডিবি পুলিশ!  
তানভীর আহম্মেদ,মেহেরপুর প্রতিনিধিঃ করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় মেহেরপুর ডিবি পুলিশেকে মাঠে নামতে দেখা গিয়েছে।মেহেরপুর ডিবি পুলিশের  উদ্যোগে শহরে  জনসচেতনতা মূলক প্রচারণা ও জনসাধারণের মধ্যে মাস্ক বিতরণ করা হয়েছে। আজ মেহেরপুর শহরের বিভিন্ন এলাকায় এই কর্মসূচির পালন করা হয়।

মেহেরপুর ডিবি'র ইন্সপেক্টর শাহ আলমের নেতৃত্বে ডিবি পুলিশের সদস্যরা মেহেরপুর শহরের হোটেল বাজার এলাকা থেকে শুরু করে কলেজ মোড়, বড়বাজার এলাকাসহ শহরের প্রধান প্রধান সড়কগুলোতে জনসচেতনতামূলক প্রচারণা চালায়। এসময় তারা বলেন,   করোনার প্রকাপ বেড়ে যাওয়ার কারণ হচ্ছে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে চলা। শুধু মাস্ক পরলেই হবে না, সাবান-পানি দিয়ে হাত ধোয়ার অভ্যাস চালু রাখতে হবে।তিনি মাস্ক বিহীন বাইরে না আসার আহ্বান জানান।  দ্বিতীয় ধাপে করোনা মোকাবিলায় জেলার পুলিশের পক্ষ থেকে নানা উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ করছে মেহেরপুর ডিবিপুলিশ।

মেহেরপুরে দিন দিন বেড়েই চলেছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা

মেহেরপুরে দিন দিন  বেড়েই চলেছে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা
মেহেরপুরে করোনা রোগীর সংখ্যা বাড়ছে! 
তানভীর আহম্মেদ,মেহেরপুর প্রতিনিধিঃ  জেলায় দিন দিন  বাড়ছে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী সংখ্যা। আজ একদিনেই করোনায়  আক্রান্ত হয়েছেন ১০জন। স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছেন- মেহেরপুরে লকডাউন ও স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণেই দিনে দিনে বেড়েই চলেছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এখন শহর ও গ্রামে সমানতালে বাড়ছে রোগীর সংখ্যা।

মেহেরপুর সিভিল সার্জন ডাঃ নাসির উদ্দিন জানিয়েছেন- মেহেরপুরে ১৮ জনের নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসে যার ১০ জনের রিপোর্ট পজেটিভ। আক্রান্তদের মধ্যে সদর উপজেলার ৪ জন, গাংনী উপজেলার ২ জন ও মুজিবনগর উপজেলার ৪ জন  বাসিন্দা।

শৈলকুপায় ক্ষীর্নকায় দম্পতির বিয়েঃ মুখরিত আউশিয়া গ্রাম

শৈলকুপায় ক্ষীর্নকায় দম্পতির বিয়েঃ মুখরিত আউশিয়া গ্রাম

সম্রাট হোসেন , ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ক্ষীর্নকায় এক দম্পতির বিয়ে নিয়ে শৈলকুপার আউশিয়া গ্রাম এখন মুখরিত। দলে দলে মানুষ আসছেন এই নবদম্পত্তিকে আশির্বাদ করতে। চল্লিশ ইঞ্চি উচ্চতার আব্বাস উদ্দীন (৩০) ও বিয়াল্লিশ ইঞ্চি উচ্চতার মিম খাতুনের (১৮) বিয়ে হয়েছে শুক্রবার রাতে। এই বিয়ে নিয়ে উভয় পরিবার উচ্ছাসিত। বর আব্বাস উদ্দীনের মা সালেহা খাতুন জানান, কৃষক ছেলের জন্য মেয়ে খুজে পাচ্ছিলাম না। অবশেষে শৈলকুপার লক্ষনদিয়া গ্রামে মেয়ে খুজে পায়। ওই গ্রামের ইউনুস আলীর এমন একটি মেয়ের আছে বলে আমরা খবর পায়। বিয়ের পয়গম পাঠানোর পর রাজি হয় কনের পরিবার। এরপর আসে সেই মেহন্দ্রক্ষন। শুক্রবার রাতে ছেলে আব্বাস উদ্দীনের সঙ্গে মিমের বিয়ে সম্পন্ন হয়। এই বিয়েতে ১৫ জন বরযাত্রী যায়। শনিবার সকালে বিয়ে বাড়ি গিয়ে দেখা যায় বর কনে পাশাপাশি বসে খোশ মেজাজে গল্প করছেন। আব্বাস ও মিম জানান, তাদের দাম্পত্য জীবন সুখি হবার জন্য যেন সবাই দোয়া করেন।

রাজাপুরে বিয়ের প্রলোভনে স্কুল ছাত্রী ধর্ষণ, বাড়ি ছাড়া করার হুমকি!

রাজাপুরে বিয়ের প্রলোভনে স্কুল ছাত্রী ধর্ষণ, বাড়ি ছাড়া করার হুমকি!

মো. নাঈম ঝালকাঠি প্রতিনিধি: ঝালকাঠির রাজাপুরে ১৭ বছর বয়সী স্কুল পড়ুয়া নবম শ্রেনীর এক ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভনে দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণের ঘটনায় ওই ছাত্রী ৯ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। শুক্রাবার গভীর রাতে ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে মো. রাজু হাওলাদারকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন (মামলা নম্বর-০৬)। রাজু হাওলাদার উপজেলার গালুয়া ইউনিয়নের নলবুনিয়া এলাকার মো. হারুন হাওলাদারের ছেলে। মামলায় ছাত্রীর বাবা অভিযোগ করেন, স্কুলছাত্রী ও রাজু একই বাড়িতে বসবাস করেন। রাজু ওই ছাত্রীকে বিয়েসহ বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে দৈহিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়। এতে ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। স্কুলছাত্রী বিষয়টি রাজুকে জানালে রাজু তাকে বিয়ে করতে অস্বীকার করে। বর্তমানে সে ৯ মাসের অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় লোকলজ্জার ভয়ে আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছে। এলাকাবাসীর অভিযোগ, ঘটনা জানাজানি হলে কয়েক মাস ধরে বাচ্চা নষ্ট করার জন্য ওই ছাত্রীকে ও তার পরিবারকে চাপ দেয়। লোকলজ্জার ভয়ে ওই ছাত্রী ও তার পরিবার অসহায় হয়ে পড়ে। এমনকি ওই ছাত্রীকে বিয়ের জন্য রাজু ও তার পরিবারকে বললে ওই ছাত্রী ও তার পরিবারকে এলাকা ছাড়া করার হুমকি দেয় ধর্ষণে অভিযুক্ত ও তার প্রভাবশালী আত্মায়ী স্বজন। এ বিষয়ে জানতে চাইলে রাজাপুর থানার মো. শহিদুল ইসলাম জানান, তার বাবার আবেদনের প্রেক্ষিতে মামলা রেকর্ড করে ওই স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করে তার জবানবন্দি রেকর্ড ও ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য আদালতে পাঠানো হয়েছে। তবে অভিযুক্ত আসামী রাজু পলাতক রয়েছে। আসামি রাজুকে গ্রেফতারে পুলিশী অভিযান অব্যাহত আছে। 

কলাপাড়ার উপজেলা শ্রমিকলীগের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ

কলাপাড়ার উপজেলা  শ্রমিকলীগের   উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ

নাঈমুর রহমান পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি:কোভিড-১৯ মোকাবেলায় জনসাধারনের মাঝে সচেতনতা সৃস্টির লক্ষ্যে কেন্দ্রীয় শ্রমিকলীগের   নির্দেশে কলাপাড়া উপজেলা শ্রমিকলীগের   আয়োজনে মাস্ক বিতরন.।  উপজেলা শ্রমিকলীগের    উদ্যোগে শনিবার  সকাল ১১ টার সময়  এ মাস্ক বিতরণ করা হয়েছে। কলাপাড়া উপজেলা শ্রমিকলীগের  সভাপতি হীরা হাওলাদার স্বপন  ও সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ (কালাম সরদার’র নেতৃত্বে   শ্রমিকলীগ কর্মীরা কলাপাড়া  কলেজ রোড  গোডাউন গার্ড চলাচলরত মোটরবাইক.অটো রিক্সা. অটোভ্যান চালকসহ চলাচলরত বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষের মাঝে এ মাস্ক বিতরণ করেন। এসময় করোনা মহামারির প্রাদুর্ভাব থেকে বাচঁতে সকলকে সরকারের দেয়া কঠোর নির্দেশনা মেনে চলার আহবান জানানো হয়। মহামারির এ প্রাদুর্ভাব থেকে নিজেদের রক্ষা করতে পারিবারিক সুরক্ষার তাগিদ দেন শ্রমিকলীগ নেতা ও কর্মিরা।

কলাপাড়া উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি হীরা হাওলাদার শ্বপন ও সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ (কালাম সরদার)  জানান, কেন্দ্রীয় শ্রমিকলীগের  সাধারণ সম্পাদক   আলহাজ্ব কে এম আজম খসরু দাদার  নির্দেশে মাস্ক বিতরনসহ কোভিট-১৯ এর সকল কার্যক্রমে মাঠে জনগনের পাসে আছি এবং থাকব ইনশাল্লাহ। এ সময় উপস্থিত ছিলেনঃ পটুয়াখালী জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি সৈয়দ নাসির উদ্দীন,উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক  অধ্যক্ষ শহিদুল আলম,কলাপাড়া পৌরসভার মেয়র ও পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি বাবু বিপুল চন্দ্র হাওলাদার, ৮নং ওয়াড আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ৮নং ওয়াড কাউন্সিল  আলহাজ্ব আব্দুল লতিফ খালাসী ,উপজেলা শ্রমিকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নুরজামাল খালাসী, উপজেলা শ্রমিকলীগের  সাংগঠনিক সম্পাদক মিন্টু মল্লিক,উপজেলা শ্রমিকলীগের দপ্তর সম্পাদক মনিরুল ইসলাম,উপজেলা শ্রমিকলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক নাঈমুর রহমান,উপজেলা শ্রমিকলীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক এইচ কে নয়ন খলিফা, উপজেলা শ্রমিকলীগের  অর্থ বিষয়ক সম্পাদক কৃষ্ণা দাস,উপজেলা শ্রমিকলীগের  সহ-অর্থ বিষয়ক সম্পাদক  মোঃ আল-আমিন হাওলাদার, উপজেলা শ্রমিকলীগের প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক দুুুলাল হাওলাদার,    সহ-প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক প্রিন্স হাওলাদার , উপজেলা শ্রমিকলীগের ক্রিয়া ও সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক রাজিব সরদারসহ, বিভিন্ন ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতা কর্মিরা উপস্থিত ছিলেন।

মুরহুম তাজুল ইসলাম পাটোঃ স্মৃতি ফাউন্ডেশন’র উদ্যোগে আমজাদ হাটে আর্থিক অনুদান ও ইফতার সামগ্রী বিতরণ

মুরহুম তাজুল ইসলাম পাটোঃ স্মৃতি ফাউন্ডেশন’র উদ্যোগে আমজাদ হাটে আর্থিক অনুদান ও  ইফতার সামগ্রী বিতরণ

কে এম রুবেল বিশেষ প্রতিবেদক : মানুষ মানুষের জন্য এ কথা কে বাস্তবে রপান্তিত করলেন মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশন'এর প্রতিষ্ঠাতা শিল্পপতি জনাব নজরুল ইসলাম পাঠোয়ারী বাবলু, মহামারী করোনা পরিস্থিতি মানুষ যখন মৃত্যর মুখামুখি সারা দেশে সরকার ঘোষিত লকডানের কারনে যখন গ্রামের কেটে খাওয়া মানুষ কর্মহীন অবস্থাই পরিবার পরিজন  নিয়ে না খেয়ে অসহাই অবস্থাই নানা খারাপ চিন্তায় দিন কাটাচ্ছে  ঠিক তখনি মানবতার জয়ের  স্লোগান কে সামনে রেখে লকডাউন ও আসন্ন পবিত্র মাহে রমজান কে সামনে রেখে  মানবতার হাত  বাড়িয়ে ফেনীর ফুলগাজী উপজেলার আমজাদ হাট ইউনিয়নের বিভিন্ন চায়ের দোকানে গ্রামে গ্রামে সুমধুর আলোচনার মুখ্য পাত্র এখন মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশন' এর সম্মানিত প্রতিষ্ঠাতা তরুন শিল্পপতি মানবতার ফেরিওয়ালা জনাব নজরুল ইসলাম বাবলু গতকাল ১০ এপ্রিল রোজ শনিবারে ফেনীর ফুলগাজী থানাধীন আমজাদ ইউনিনের কিলিদিঘি এলাকা ও পাশ্ববর্তী ৩/৪ গ্রামের অসহায়  প্রাই ৩০০ পরিবার কে করোনা দূর্যোগে  পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে  আমজাদহাট ইউনিয়নেরসেচ্ছাসেবী সংগঠন "মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশন'র"উদ্যোগর ফাউন্ডেশনে'র প্রতিষ্ঠাতা নইসলাম পাটোয়ারী বাবলু'র আর্থিক সহায়তায় ইফতার সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশন'উদ্দেগে এই ইফতার সামগ্রী বিতরণে সার্বিক সহযোগিতা করেন ফাউন্ডেশনে'র সদস্য শরিফুল ইসলাম পাটোয়ারী সাবলু, মোহাম্মদ রবিন মজুমদার, শাকিল, মিজান, পলাশ, বেলাল, মোশারফ, শরীফ, সাপাত, জয়নাল, হাসান ও কাদের  সহ প্রমুখ ।
মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশন' প্রতিষ্ঠাতা শিল্পপতি নজরুল ইসলাম পাটোয়ারী বাবলু দৈনিক আলোকিত দেশ কে জানান, করোনা ভাইরাসের প্রভাবে মানুষজন যখন কষ্টে দিন কাটাচ্ছে। এই সংকটময় মুহুর্তে আমজাদহাট ইউনিয়নের মানুষের কষ্ট লাঘবের জন্য আমার পিতা তাজুল ইসলাম পাটোয়ারীর নামে গড়া মরহুম তাজুল ইসলাম পাটোয়ারী স্মৃতি ফাউন্ডেশনে'র পক্ষ থেকে দুঃস্থ, অসহায়, দরিদ্র, কর্মহীন ৩শ পরিবারে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করেছি। নজরুল ইসলাম পাটোয়ারী বাবলু'র এই মহৎ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন স্থানীয় এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

মামুনুল ও দুর্নীতিবাজদেরকে পুষে রাখবেন না : মোমিন মেহেদী

মামুনুল ও দুর্নীতিবাজদেরকে পুষে রাখবেন না : মোমিন মেহেদী

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: নতুনধারা বাংলাদেশ এনডিবির চেয়ারম্যান মোমিন মেহেদী বলেছেন, মামুনুল ও দুর্নীতিবাজদেরকে পুষে রাখবেন না; যদি অপরাধ প্রমাণিত হয় বিচারের আওতায় আনুন, নির্দোশ হলে মুক্ত করুন। যদি দেশকে ভালোবাসেন নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল করুন, নীতি-আদর্শের রাজনীতিকদেরকে কাজ করার সুযোগ গড়ে দিন।

১০ এপ্রিল বিকেল ৩ টায় 'মামুনুল-লকডাউনে ব্যর্থতা কার?' শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহবান জানিয়ে উক্ত কথা বলেন তিনি। সভায় প্রেসিডিয়াম মেম্বার রাশেদ চৌধুরী, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান শান্তা ফারজানা, সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াজেদ রানা, মো. শরীফ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। এসময় বক্তারা বলেন, দেশকে কোন অন্যায়-অপরাধ-দুর্নীতিবাজ-জঙ্গীবাদের দিকে ঠেলে দিতে না চাইলে লম্পট-লুটেরাদের রাজনীতিকে প্রতিরোধ করুন, ধর্ম ব্যবসায়ীদের রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে হবে। পবিত্র রমজান ও ঈদকে সামনে রেখে পরিকল্পিত ও স্বাস্থ্য সম্মতভাবে ব্যবসা সহ সকল সেক্টর উম্মুক্ত রাখতে হবে।