পটিয়া পৌর নির্বাচনে বিএনপি'র দলীয় মনোনয়ন পেতে হাজী নজরুল ইসলাম

সেলিম চৌধুরী, স্টাফ রিপোর্টারঃ- দক্ষিণ চট্টগ্রামে গুরুত্বপূর্ণ পটিয়া পৌরসভা আসন্ন নির্বাচনে বিএনপি দলীয় মেয়র পদে মনোনয়ন পেতে পটিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানজিং কমিটির সদস্য সাবেক ছাএনেতা এবং পটিয়া পৌরসভা যুবদলের সিনিয়র সহ- সভাপতি এবং পটিয়া পরিবেশক ব্যাবসায়ি সমিতির সভাপতি হাজী নজরুল ইসলাম জোর লবিং চালিয়ে যাচ্ছেন। কিল্ম ইমেজ উদীয়মান যুবনেতা হাজী নজরুল ইসলাম ১৯৮৮ সাল থেকে জাতীয়তাবাদী ছাএদলের রাজনীতি দিয়ে প্রথম রাজনীতি শুরু করেন। এখনো পর্যন্ত দলের জন্য নিবেদিত হয়ে কাজ করছেন বলে দলীয় নেতা কর্মীদের সুএে জানাগেছে।শিক্ষিত ভদ্র নম্র হিসেবে তার সুনাম রয়েছে। তার পাশাপাশি হাজী নজরুল ইসলাম এর নাম সালাম ফাউন্ডেশনের নামে গরীব, অসহায়, দিন মজুরসহ গরীব মেধাবী শিক্ষার্থীদে বিভিন্ন সাহায্য সহযোগিতা করে করে আসছেন দীর্ঘদিন ধরে। পটিয়া পৌর সদর বাসষ্টেশন এলাকায় তার হাজী নজরুল ইসলাম এর নিজস্ব বাসভবন হওয়ার সুবাদে দলীয় নেতা কর্মীরা অতি সহজে দলীয়  কর্মীরা  যে কোন বিপদে আপদে পেয়ে থাকেন হাজী নজরুল ইসলাম'কে আসন্ন পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপি মনোনয়ন পাওয়ার প্রত্যাশা করেন হাজী নজরুল ইসলাম। এছাড়াও তিনি বিভিন্ন  সামাজিক সংগঠনের সাথে জড়িত। পৌর নির্বাচনে বিএনপি মেয়র প্রার্থীদের ধানের শীষ প্রতীক পেতে এবার কোমর বেধে মাঠে নেমেছে। এ নির্বাচনে অংশ  নেওয়ার জন্য ভোটারাও বেশ উৎসাহী। সম্ভাব্য প্রার্থীরা বিভিন্ন এলাকায় শুভেচ্ছা বিনিময় ও ভোট প্রার্থনা করছেন। পটিয়া  পৌর নির্বাচনে বিএনপি সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে যাদের নাম শুনা যাচ্ছে তারা হলেন  সাবেক পটিয়া পৌরসভার বিএনপি'র সভাপতি সাবেক মেয়র নুরুল ইসলাম সওদাগর, গত নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী তৌহিদুল আলম, সাবেক পটিয়া পৌরসভার বিএনপি যুগ্ম আহবায়ক গাজী মোহাম্মদ আবু তাহের, দক্ষিণ জেলা যুবদলের সিনিয়র সহসভাপতি শাহজাহান চৌধুরী, জাতীয়তাবাদী তরুণ দলের কেন্দ্রীয় কমিটির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল কাদের জুলু,  আওয়ামী লীগে এখনো ৫ জন মনোনয়ন প্রত্যাশী তবে  প্রার্থী নির্ধারণ হয়নি। বিএনপি থেকে ৬জন  প্রচারণা চালালেও আওয়ামী  ৫জন নেতা মাঠে রয়েছেন।পটিয়া  বগুড়া পৌরসভার সবশেষ নির্বাচন হয় ২০১৫ সালের ৩০ ডিসেম্বর। জাতীয় পার্টি একক প্রার্থী হিসেবে  মাঠে রয়েছে জাতীয় পার্টি কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ও দক্ষিণ জেলার সভাপতি সাবেক পটিয়া পৌরসভার মেয়র শামসুল আলম মাস্টার। ভোটারদের অভিমত কে হতে যাচ্ছেন আগামী পটিয়া পৌরসভার মেয়র। বিএনপি ও জাতীয় পার্টি নেতা কর্মীরা সুষ্ট নিরপেক্ষ নির্বাচন আশা করেন যাতে ভোটারা তাদের প্রছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পারে। ২২ নভেম্বর পটিয়ায় জাতীয় পার্টির এক সমাবেশে জাপার  অতিরিক্ত মহাসচিব এডভোকেট রেজাউল ইসলাম ভুইঁয়া বলেছেন নৌকা প্রতিক পেলে বিজয়ী সে ধারণা সংস্কৃতি থেকে বেরিয়ে আসার আহবান জানিয়েছে।  


শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট