আশাশুনি সদরের দয়ারঘাট-জেলেখালীর ভাঙ্গা বাঁধের কাজ অচিরেই শুরু হবে চেয়ারম্যান মিলন

আহসান উল্লাহ বাবলু   , আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধি : আশাশুনি সদরের দয়ারঘাট-জেলেখালী নদীর পানি উন্নয়ন বোর্ডের ভাঙ্গা বাঁধ বাঁধার কাজ অচিরেই শুরু হচ্ছে বলে খুশীর খবর জানালেন আশাশুনি সদর ইউপি চেয়ারম্যান ও যুবলীগের সভাপতি স ম সেলিম রেজা মিলন। 

 শুক্রবার (২২ জানুয়ারী) বিকালে সদরের ১ নং ওয়ার্ডের গাছতলা কালিমন্দির চত্বরের এক কর্মী সমাবেশে তিনি উপস্থিত নদী বাঁধ সংশ্লিষ্ট ভুক্তভোগী জনগনের উদ্দেশ্যে এ সুখবরটি জানিয়ে তিনি বলেন- ১৯৯৫ সাল থেকে খোলপেটুয়া নদীর অব্যহত ভাঙ্গনে প্রায় প্রতি বছর প্লাবিত হয়ে দয়ারঘাট, জেলেখালী ও আশাশুনি সদরের মানুষ দুঃখ কষ্টে দিনাতিপাত করছেন। একাধিকবার প্লাবেনর ফলে জেলেখালী ও দয়ারঘাটের উল্লেখযোগ্য সংখ্যক লোক নদীপাড় ছেড়ে ভারতে অথবা অন্যত্র যেতে বাধ্য হয়েছে।

 গত আম্পানে বাঁধ ভাঙ্গনের সময় সাতক্ষীরার এক ঠিকাদার বাঁধটি মেরামতের কাজ করছিলেন। তারপরও অতিমাত্রায় জলোচ্ছ্বাসের কারণে বাঁধটি রক্ষা করা যায়নি। তবে আমি চেষ্টা করেছি শুধু কথা দিয়ে নয় সরাসরি পাশে থেকে আপনাদের দুঃখ দুর্দশা লাঘবের জন্য। আপনাদের সাথে নিয়ে রিং বাঁধ অল্প কয়েকদিনের মধ্যে জোয়ারের পানি আটকে দিয়েছি। মুলবাঁধটি বাঁধার জন্য যখন পানি উন্নয়ন বোর্ডের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে একের পর এক আবেদন করে চলেছি ঠিক তখনই একটি মহল ভুক্তভোগী মানুষের দুর্দশার সুযোগ নিয়ে গনস্বাক্ষর করিয়ে বাঁধটি হতে না দিয়ে তাদের হীন স্বার্থ চরিতার্থ করেছে। তারপর দীর্ঘ ৭ মাস ধরে সেভাবেই পড়ে আছে  বাঁধটির সংস্কার কাজ। 

উপায় না দেখে আমি আবারও উদ্দ্যোগ নিয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলে বাঁধটি মেরামতের জন্য আবেদন করেছি। তারা বলেছেন বাঁধটির নকশা ইতোমধ্যে হয়ে সেটা টেন্ডারে দেওয়া হয়েগেছে। ফেব্রুয়ারীর প্রথম বা দ্বিতীয় সপ্তাহে কাজ শুরু হবে। আমি কোন সন্ত্রাসী বা লঠিয়াল মাস্তান বাহিনী তৈরী করে মানুষের সন্মান নষ্ট করিনি, মানুষের জমি দখল করিনি বা চাকুরী দেবার কথা বলে কারও টাকা আত্মসাৎ করিনি। আমি সর্বদা আপনাদের পাশে ছিলাম এবং থাকব। তিনি আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সকলের সহযোগীতা চেয়ে তার অসমাপ্ত কাজ শেষ করার সুযোগ প্রদানের জন্য আরেক বার নির্বাচিত করার আহ্বান জানান। 

প্রাক্তণ শিক্ষক কালীপদ রায়ের সভাপতিত্বে শতশত মানুষের উপস্থিতিতে সাংবাদিক এমএম সাহেব আলীর উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সামাদ বাচ্চু, সমাজসেবক অনাথ বন্ধু চক্রবর্তী, প্রবীণ আওয়ামীলীগ নেতা শিক্ষক শ্রীদাম চন্দ্র বাছাড়, মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সেলিনা আক্তার শেলু, ইউপি সদস্য শাহিনুর আলম, সন্তোষ কুমার মণ্ডল, শ্রমিকলীগের সেক্রেটারি মনিরুজ্জামান বিপুল, ছাত্রলীগের সভাপতি আসমাউল হুসাইন, সমাজসেবক রবিন্দ্র নাথ সানা, স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা বাবুল আক্তার প্রমুখ।

শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট