নড়াইল পুলিশের পৃথক অভিযানে ইয়াবা ট্যাবলেট ও গরুসহ পিকাপ-ভ্যান আটক

মো: আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ  রিপোর্টার নড়াইলঃ নড়াইল পুলিশ সুপারের নির্দেশনায় মাদকবিরোধী অভিযানে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে (৪জানুয়ারি) সোমবার রাত ১০ ঘটিকার সময় চিহ্নিত মাদক কারবারী মোঃমেহেদি হাসান (২৫),পিং-মনজুর শেখ,সাং নড়াইল পৌরসভার ডুমুরতলা (বেগপাড়া)থানা ও জেলা নড়াইল কে,নড়াইল পৌরসভাধীন ভূওয়াখালী পুরাতন বাস টার্মিনাল ফলপট্টির সামনে পাকা রাস্তার উপর হইতে,এসআই আনিস,এসআই মাফুজুর রহমান,এসআই সেলিম মুন্সি,এসআই মফিজুর রহমান,কনেস্টবল বখতিয়ার,শিবলি,সরোয়ার সহ গ্রেপ্তারকৃত আসামীর নিকট হইতে ৪৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার পূর্বক গ্রেফতার করা হয়।
গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে নড়াইল সদর থানায় নিয়মিত মামলা নং ৫ (৫জানুয়ারি) রুজু করা হয়েছে।
ধৃত আসামী গ্রেপ্তার করা কালীন সময়ে আরও  একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী পালিয়ে যায়,তবে পালিয়ে যাওয়া আসামী কে গ্রেপ্তারের অভিযান অব্যাহত আছে বলেও জানান।
এদিকে,
নড়াইলে চুরি হওয়া ৩টি গরুসহ একটি পিকাপ ভ্যান শেখহাটি ফাড়ি পুলিশের হাতে আটক।
নড়াইল সদর উপজেলার শেখহাটি ইউনিয়নের দেবভোগ গ্রাম হতে চুরি হওয়া (৩টি) গরু ও চুরির কাজে ব্যাবহৃত একটি পিক-আপ জব্দ করেছে শেখহাটি ফাড়ির পুলিশ।
শেখহাটি ফাড়ির এস আই আলিমুজ্জামান জানান,(৫জানুয়ারি) মঙ্গলবার ভোর রাতে শেখহাটি ইউনিয়নের দেবভোগ গ্রাম হতে ৩টি গরু চুরি করে পালিয়ে যাওয়ার সময় একই ইউনিয়নের তপনভাগ এলাকা হতে চুরিকৃত ৩টি গরু ও চোরদের একটি পিক-আপ আটক করা হয়,কিন্তু চোরদের আটক করা সম্ভাব হয় নি।
পুলিশের ধাওয়ায় চোরেরা তাদের একটি পিক-আপ ও চুরিকৃত গরু রেখে অন্য একটি পিক-আপে করে পালিয়ে যায়।
চোরদের ধাওয়া করার সময় পুলিশের এস আই আলিমুজ্জামান গুরুতর আহত হন।
এ বিষয়ে শেখহাটি পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই আলিমুজ্জামান জানান,খবর পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে আমরা চোরদের ধাওয়া করে চুরি হওয়া ৩ টি গরু ও চোরদের একটি পিক-আপ আটক করতে সক্ষম হয়। তবে চোর চক্র অন্য একটি পিক-আপে করে পালিয়ে যশোরের অভয়নগরে ঢুকে যায়।
আমরা সেখানকার পুলিশকে বিষয়টি জানিয়েছি এবং চোরদের আটকের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান।

শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট