হুইপের ভাই মজিবুল হক চৌধুরী'কে দেখতে গেলেন পটিয়া পৌর জাতীয় শ্রমিকলীগ নেতৃবৃন্দ

 হুইপের ভাই মজিবুল হক চৌধুরী'কে দেখতে গেলেন পটিয়া পৌর জাতীয় শ্রমিকলীগ নেতৃবৃন্দ

পটিয়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ-পটিয়া থেকে বার বার নির্বাচিত এমপি গরিব দুঃখী মানুষের আপনজন মাননীয় হুইপ আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরী মহোদয়ের ছোট ভাই পটিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সদস্য এবং পটিয়া গরিব দুঃখী ও অসহায়ের পাশে ছুটে এসে খোঁজ-খবর রাখেন সবসময় প্রিয় নেতা  মোঃ মুজিবুল হক চৌধুরী নবাব'কে বাসায় দেখতে যান পটিয়া পৌরসভা জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি মোঃ শফিকুল ইসলাম শফি, সহ সভাপতি মোঃ কলিমুর রহমান,  সাধারণ সম্পাদক মোঃ মোজাম্মেল হক মাজু। ৬ নং ওয়ার্ডের সহ সভাপতি মোঃ জিয়াউর রহমান সহ। এসময় নেতৃবৃন্দ  সুস্থ কামনা করেন  আল্লাহর যেনো মহিবুল হক চৌধুরী নবাব'কে সুস্থ  ও হেফাজতে রাখেন আমিন।

যশোরের রাজনৈতিক অঙ্গনে তিন বন্ধু এখন শুধুই স্মৃতি!

যশোরের রাজনৈতিক অঙ্গনে তিন বন্ধু এখন শুধুই স্মৃতি!

নিজস্ব সংবাদদাতা  : যশোরে রাজনৈতিক অঙ্গনের ‘তিনবন্ধু’ হিসেবে পরিচিত বিএনপির শীর্ষ নেতা তরিকুল ইসলাম, আ.লীগ নেতা আলী রেজা রাজু ও খালেদুর রহমান টিটো এখন শুধুই স্মৃতি। তিন জোড়ের দুইজন আগেই বিদায় নিয়েছিলেন। সর্বশেষ গতকাল বন্ধুদের পথ ধরে পরপারে পাড়ি জমান খালেদুর রহমান টিটো। তারা তিনজই যশোর পৌরসভার চেয়ারম্যান ছিলেন। তারা আলাদা রাজনৈতিক দল করলেও ছিলেন ঘনিষ্ট তিনবন্ধু। তবে ছয় বছরের ব্যবধানে তিনজনের ঠিকানা এখন পরোপার।  তবে তিন বন্ধুর মধ্যে একটি গভীর মিল ছিল। তারা ছিলেন প্রকৃত রাজনৈতিক কর্মী। রাজনীতি ভিন্ন তাদের কোনো পেশা ছিল না।

১৯৭৭ সালে তরিকুল ইসলাম যশোর পৌরসভার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। ১৯৯৩ সালে তিনি যশোর সদর-৩ আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। খালেদুর রহমান টিটো জাতীয় পার্টি ক্ষমতায় থাকাকালীন ১৯৮৪ সালে যশোর পৌরসভার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।১৯৮৬ সালে  তিনি জাতীয় পার্টির প্রতিমন্ত্রী ছিলেন। ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের নৌকা মার্কায় যশোর সদর আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। আলী রেজা রাজু বিএনপি করতেন। ১৯৯৩ সালে তিনি যশোর পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হন। এরপর তিনি আওয়াম ীলীগে যোগ দেন। ১৯৯৬ সালে তিনি যশোর সদর-৩ আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন এরপর ২০০৪ সাল থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। ২০১৬ সালের ১৫ জুলাই তিনি ঢাকা ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। আলী রেজা রাজুর মৃত্যুর ২ বছরের মাথায় ২০১৮ সালের ৪ নভেম্বর তরিকুল ইসলাম মৃত্যুবরণ করেন ঢাকা অ্যাপোলো হাসপাতালে। দুই বন্ধুকে হারিয়ে বেঁচে ছিলেন খালেদুর রহমান টিটো। তিনি রোববার যশোর সিএমএসএ শ্বাসকষ্ট জনিত কারণে চিকিসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন।

তিন বন্ধুর রাজনৈতিক পরিচয় ভিন্ন হলেও যশোরের উন্নয়নে সর্বদা ছিলেন এক। আমৃত্যু তারা বন্ধুত্ব ধরে রেখেছিলেন।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা

আব্দুর রাজ্জাক,মানিকগঞ্জ: মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা'র প্রতিষ্ঠিত ও ইসলামিক ফাউণ্ডেশন কর্তৃক বাস্তবায়িত দেশের প্রতিটি উপজেলায় ২ টি করে মোট ১০১০টি দারুল আরকাম ইবতেদায়ী মাদ্রাসার শিক্ষক- শিক্ষিকাগণের ঐক্যবদ্ধ প্ল্যাটফর্ম ''বাংলাদেশ দারুল আরকাম শিক্ষক কল্যাণ সমিতি'র উদ্যোগে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা'র প্রতিষ্ঠি দারুল আরকাম এবতেদায়ী মাদ্রাসার প্রকল্পটি দ্রুত পুনঃ অনুমোদন কামনায় 

আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।
তারিখঃ ১০ জানুয়ারি ২০২১ইং রোজ রবিবার 
স্থানঃ ফটো জার্নালিস্টি এসোসিয়েশন, ঢাকা।
সভাপতিত্ব করেন মুফতী জয়নুল আবেদীন 
সভাপতি বাংলাদেশ দারুল আরকাম শিক্ষক কল্যাণ সমিতি।

অনুষ্ঠান পরিচালনায় মোঃ রাশেদুল ইসলাম। 

আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে   বক্তব্য পেশ করেন জনাব আলহাজ্ব মোহাম্মদ আলী ফারুকী যুগ্ন-
 মহাসচিব বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন (বি,টি,এফ)

আলোচক বৃন্দঃ
মোঃআনিছুর সভাপতি বগুড়া 
মোঃ ফয়জুল হাসান সিঃ সহ সভাপতি কেন্দ্রীয় কমিটি
মোঃ মাকসুদুল ইসলাম সভাপতি রাজশাহী 
মোঃ মহিউদ্দিন মিজান সভাপতি কুমিল্লা 
মোঃ আল আমিন সিঃ যুগ্ন সম্পাদক কেন্দ্রীয় কমিটি
মোঃ হাবিবুর রহমান সিঃ সহ সভাপতি কেন্দ্রীয় কমিটি 
মোঃ ইউনুস খান ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক কেন্দ্রীয় কমিটি 
মোঃ আব্দুল আউয়াল সভাপতি মানিকগঞ্জ 
আব্দুর রাজ্জাক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মানিকগঞ্জ 
মোঃ সিরাজুল ইসলাম সাধারণ সম্পাদক টাংগাইল। 

  আলোচকগণ বলেন আজ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে সমূহ ইসলামের খেদমতের জন্য বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের শহিদগণের আত্নার মাগফেরাত কামনা করছি। আল্লাহ তায়ালা তার ইসলামের সকল খেদমতকে সদকায়ে জারীয়া হিসেবে কবুল করুন। আমিন
 সমাপনী বক্তব্য ও মোনাজাত পরিচালনা করেন মুফতী জয়নুল আবেদীন  সভাপতি কেন্দ্রীয় কমিটি।

বঙ্গবন্ধু স্মারক সম্মাননা পেলেন এম.নরুল হুদা চৌধুরী

বঙ্গবন্ধু স্মারক সম্মাননা পেলেন এম.নরুল হুদা চৌধুরী

নিউজ ডেস্ক: বঙ্গবন্ধু ও জাতীয় চার নেতা স্মৃতি পরিষদের আয়োজিত বঙ্গবন্ধুর  জন্মশতবার্ষিকী ও ৫০তম মহান বিজয় দিবস২০২০ উপলক্ষে " যুদ্ধাপরাধীদের বিচার তরান্বিত করার অন্দোলন, মানবসেবা ও রাজনীতিতে অবদান রাখায়" একুশে পদক প্রাপ্ত উপমহাদেশের বিশিষ্ট সমাজ বিজ্ঞানী ড. অনুপম সেন, চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান প্রফেসর প্রদীপ চক্রবর্ত্তী'র নিকট থেকে বঙ্গবন্ধু স্মারক সম্মাননা গ্রহন করছেন চট্টগ্রাম আনোয়ারা উপজেলা ৯নং পরৈকোড়া ইউনিয়নের কৃতি সন্তান, চট্টগ্রাম মহানগর জননেত্রী শেখ হাসিনা পরিষদের সহ-সভাপতি, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য, মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও সাহিত্য চর্চা পরিষদের সভাপতি এম. নুরুল হুদা চৌধুরী।

 তিনি কপোতাক্ষ নিউজ কে বলেন-আমি আমার সাধ্যমত চেষ্টা করেছি মানুষের সেবা করার  তথা দেশের জন্য কাজ করার। এ পুরস্কার পেয়ে সত্যিই আমি আনন্দিত।অভিনন্দন জানায় বঙ্গবন্ধু ও জাতীয় চার নেতা স্মৃতি পরিষদের আয়োজক টিম কে।

নওগাঁয় ছেলের হাতে মা খুন

নওগাঁয় ছেলের হাতে মা খুন

রহমতুল্লাহ আশিকুর জামান  নুর,নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁর সাপাহার উপজেলা সদরের মানিকুড়া গ্রামে ছেলের লাঠির আঘাতে মায়ের খুন হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে মা শাহনাজ বেগম(৪৫) ও ছেলে আরিফ (২৪) এর মধ্যে এনজিও এর কিস্তির টাকা নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে ঘাতক ছেলে তার মায়ের মাথায় লাঠি দিয়ে আঘাত করলে মায়ের মৃত্যু হয়।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে ঘটনার দিন সন্ধ্যার দিকে এনজিওর কিস্তির টাকা পরিশোধের বিষয় নিয়ে মা শাহনাজ বেগম (৪৫) ও ছেলে আরিফ হোসেন (২৪) এর মধ্যে তুমুল তর্ক বিতর্ক হয়। এর একপর্যায়ে ঘাতক ছেলে আরিফ তার মায়ের মাথায় লাঠি দিয়ে সজোরে আঘাত করে। এ সময় ঘটনা স্থলেই মা শাহনাজ জ্ঞান হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। অবস্থা বেগতিক দেখে ওই গ্রামের লোকজন অজ্ঞান অবস্থায় তাকে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসকগণ তার প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থান্তরিতর্ করেন। গুরুত্বর আহত শাহনাজকে রাতেই রাজশাহী নিয়ে যাবার সময় পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয়। এ বিষয়ে সাপাহার থানার কর্মকর্তা ইনচার্জ (ওসি) তারেকুর রহমান সরকারের সাথে কথা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন যে নিহতের ভাই নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। লাশ ময়না তদন্তে পাঠানো হয়েছে। নিহত শাহনাজ বেগম মানকিুড়া গ্রামের মৃত অছির উদ্দীনের মেয়ে। পাশবর্তী তাজপুর গ্রামে তার বিয়ে হলে ছেলে আরিফ সহ একটি মেয়ের জন্ম হওয়ার পর সে তালাক প্রাপ্ত হয়ে দীর্ঘ দিন যাবৎ বাবার বাড়ীতে ছেলে আরিফকে নিয়ে আলাদা ভাবে বসবাস করে আসছিল বলে ওই গ্রামবাসী জানিয়েছেন। এ ছাড়া মায়ের ঘাতক আরিফ জন্ম থেকেই অনেকটা মানসিক ভারসম্যহীন ছিল বলেও গ্রামবাসী জানিয়েছেন।

পটিয়া নিবার্চনে মনোনয়ন ফরম নিলেন মেয়র পদে ২জন, কাউন্সিলর পদে ২১ জন

পটিয়া নিবার্চনে মনোনয়ন ফরম নিলেন মেয়র পদে ২জন, কাউন্সিলর পদে ২১ জন

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ- চট্টগ্রামের প্রথম শ্রেণীর  পটিয়া পৌরসভা নিবার্চনে তৃতীয় দিনে রবিবার উপজেলা নিবার্চন কর্মকর্তা আরাফাত আল হোসাইনী'র কাছ থেকে মেয়র পদে ২ জন, সাধারন কাউন্সিলর পদে ১৯ জন ও সংরক্ষিত মহিলা আসনে ২জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। মেয়র প্রাথীরা হলেন, বিএনপি সমর্থিত মোহাম্মদ তৌহিদুল আলম ও গাজী মোহাম্মদ আবু তাহের। সংরক্ষিত মহিলা আসন-(০২) শাহানাজ বেগম ও সংরক্ষিত-(০৩) পারভিন আকতার। সাধারন কাউন্সিলর পদে ১নং ওয়ার্ডে আ'লীগ সভাপতি মোহাম্মদ নাছির, আবদুল মালেক, আশাফুল আলম, মীর মো: আবদুল রহমান, মো: ইয়াছিন আকরাম।
৩নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর আবু ছৈয়দ, পৌরসভা যুবলীগ প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সাংবাদিক মো: গোলাম কাদের, মো: নজরল ইসলাম, ৪নং ওয়ার্ডে পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি মুহাম্মদ শফিকুল ইসলাম, মুহাম্মদ ইব্রাহিম, ৫নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর এম খোরশেদ গনি, মুজিবুর রহমান, মুহাম্মদ ছৈয়দুল আবেদীন, ৬নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর শফিউল আলম, পৌরসভা ছাত্রলীগ সাবেক সভাপতি রবেল দাশ বাবু, ৭নং ওয়ার্ডে এসএম আনছার, ৮নং ওয়ার্ডে পৌরসভা জাপার সদস্য সচিব মোস্তাক আহমদ, ৯নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর শেখ সাইফুল ইসলাম ও যুবদল নেতা মো: সোহেল। ইতিপূর্বে আরো ৩১ জন কাউন্সিলর প্রার্থী মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন।

কাঠালিয়ায় এক যুবককে ডেকে নিয়ে হত্যা, আটক-১,অন্য এক বৃদ্ধের মরদেহ উদ্ধার

কাঠালিয়ায় এক যুবককে ডেকে নিয়ে হত্যা, আটক-১,অন্য এক বৃদ্ধের মরদেহ উদ্ধার

মোঃ নাঈম হাসান ঈমন স্টাফ রিপোর্টারঃ ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলার শৌলজালিয়া ইউনিয়নের বলতলা ছয়ঘর নামক স্থানে মোঃ রুবেল হাওলাদার (৩২) ডেকে নিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। শনিবার দিবাগত রাতে পার্শ্ববর্তী বাবুল হাওলাদার ঘরের একটি কক্ষ থেকে রুবেলের ক্ষতবিক্ষত রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ । রুবেল বলতলা গ্রামের আঃ বারেক খানের পুত্র। এ ঘটনায় বাবুল হাওলাদারের স্ত্রী খাদিজা বেগম (৩০)কে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। 

রুবেলের স্ত্রী রুবী আক্তার জানান, "বাবুল হাওলাদার আমার স্বামী রুবেলকে ফোন দিয়ে তার বাড়ীতে ডেকে নেয়। রাত ১০টার দিকে লোক মারফত জানতে পারি রুবেলকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আমি ও আমার আত্মীয়স্বজন বাবুলের বাড়ীতে গিয়ে তার ঘরের একটি কক্ষে স্বামী রুবেলের লাশ কম্বল দিয়ে ডেকে রাখা অবস্থায় দেখতে পাই।

তখন ঘরের ভিতর রক্ত প্রবাহিত হচ্ছিলো, ঘটনার পর পর কাঠালিয়া থানা পুলিশের একটি দল ও শৌলজালিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মোঃ মাহমুদ হোসেন রিপন ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। ঘটনার পর বাবুল পলাতক রয়েছে। 

উল্লেখ্য যে, গত ৪/৫ বছরের ব্যবধানে রুবেলের বাবা আঃ বারেক খান ও ভাই রাসেল দূর্বৃত্তদের হাতে খুন হয়। নিহত রুবেলের নামে কাঠালিয়া ও ভান্ডারিয়াসহ বিভিন্ন থানায় একাধিক জি আর মামলা রয়েছে। এ নিয়ে একই পরিবারটিতে তিনজন হত্যার শিকার হয়।

ঘটনাস্থলে ঝালকাঠি অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ হাবিবুল্লাহ ও সিনিয়ির সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ সাখাওয়াত হোসেন (রাজাপুর-কাঠালিয়া সার্কেল) পরিদর্শন করেন। কাঠালিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ পুলক চন্দ্র রায় জানান, নিহত রুবেলর মা লুৎফুরনেহার বেগম বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। আজ রোববার সকালে লাশ ময়না তদন্তের জন্য ঝালকাঠি মর্গে প্রেরণ কর হয়েছে। 

অপরদিকে কাঠালিয়া উপজেলার বানাই গ্রামে আলমগীর নামে এক অটো চালকের ঝুলান্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত আলমগীর বানাই গ্রামের সেকান্দার তালুকদারের পুত্র। লাশ ময়না তদন্তের জন্যে ঝালকাঠি মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা

আহসান উল্লাহ বাবলু আশাশুনি সাতক্ষীরা,  প্রতিনিধিঃ ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার সকালে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এবিএম মোস্তাকিম এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের আলোচনা সভায় 

সভাপতির বক্তব্যে এবিএম মোস্তাকিম বলেন, বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে পাকিস্তান কারাগার থেকে মুক্তির জন্য বাঙালি জাতি ঐক্যবদ্ধ হয়ে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলে যার পরিপ্রেক্ষিতে দেশীয় ও আন্তর্জাতিক চাপে পাকিস্তান সরকার ১৯৭২ সালের ৮  জানুয়ারি বঙ্গবন্ধুকে পাকিস্তান কারাগার থেকে মুক্তি দিতে বাধ্য হন। পাকিস্তানের মিয়ানওয়ালি কারাগারে দীর্ঘ ৯ মাস বন্দী থাকার পর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালের ১০ জানুয়ারি বাংলাদেশে প্রত্যাবর্তন করেন।তিনি আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন তুলে ধরে বলেন বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করে চলেছেন। তিনি প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে অবিচল আস্থা রেখে নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান। 

আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন আশাশুনি উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সদর ইউপি চেয়ারম্যান স,ম সেলিম রেজা মিলন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সমদ বাচ্চু, উপজেলা শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান বিপুল,যুবলীগ নেতা আনিসুর রহমান বাবলা,পরেশ অধিকারী,ছাত্রলীগ নেতা তানভীর রহমান রাজ,আল আমিন হোসেন, শাহারুল ইসলাম প্রমুখ।

ঝিকরগাছায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়

ঝিকরগাছায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়

আব্দুল জব্বার, স্টাফ রিপোর্টার/ ইকরামুল করিম সৈকত: হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, স্বাধীনতার মহান স্থপতি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ যশোরের  ঝিকরগাছা উপজেলা শাখার উদ্যোগে আলোচনা সভা ও উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সকল সহযোগী সংগঠনের পক্ষ থেকে উপজেলা মোড়ে বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে  উপস্থিত ছিলেন, যশোর-২ (চৌগাছা-ঝিকরগাছা) আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মেজর জেনারেল (অবঃ) অধ্যাপক ডাঃ মোঃ নাসির উদ্দীন।

ঝিকরগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও পৌর মেয়র মোস্তফা আনোয়ার পাশা জামাল এর সভাপতিত্বে 

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মনিরুল ইসলাম, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য ও ইউপি চেয়ারম্যান নওশের আলী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ডাক্তার মুস্তাফিজুর রহমান মুসা, সাবেক আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট আব্দুল কাদের আজাদ, সাবেক তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক বাবু অশোক দত্ত। 

অনুষ্ঠানে আরোও উপস্থিত ছিলেন, যশোর জেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি আজহার আলী, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক কমিটির সদস্য সাজ্জাদুল আলম, রফিকুল ইসলাম বাপ্পী, শামীম রেজা, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান সেলিম রেজা, জাফিরুল হক, শাহেদুর রহমান শিপলু, আব্দুল বারিক, আলমগীর কবির, আব্দুল জব্বার, আবু জাফর মনি, জাহাঙ্গীর আলম, মনিরুজ্জামান সোহাগ, জুলফিকার আলী ভুট্টো, পৌর যুবলীগের আহবায়ক একরামুল হক খোকন, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শামসুর রহমান, উপজেলা শ্রমিক লীগ নেতা জাহাঙ্গীর সরদার, ঝিকরগাছা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এহসানুল হাবীব শিপলু, সাধারণ সম্পাদক কামাল হোসেন, পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তৌফিক আলম কৌশিক।

ঝিকরগাছা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান আমীর হোসেন, সম্পাদক শফিউদ্দিন, শিমুলিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মতিয়ার রহমান সর্দার, গদখালি ইউনিয়ন সভাপতি শাহাজান আলী, গঙ্গানন্দপুর ইউনিয়ন সভাপতি আতাউর রহমান ঝন্টু, সাবেক চেয়ারম্যান আমিনুর রহমান আমিন, মাগুরা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক, বাঁকড়া ইউপি চেয়ারম্যান নিছার আলী, নাভারণ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা হারুণ অর রশিদ, শংকপুর ইউনিয়নের সাবেক সাধারণ সম্পাদক গোবিন্দ চ্যাটার্জী, হাজিরবাগ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা সাত্তার খান, নুরুল আমীন মধু, সোহরাব হোসেন, নির্বাসখোলা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুস সাত্তার সহ উপজেলার বিভিন্ন ইউনিটের আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

বড়লেখায় ১নং বর্ণি ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সাহাব উদ্দিন

বড়লেখায় ১নং বর্ণি ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সাহাব উদ্দিন

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার ১নংবর্ণি ইউনিয়ন পরিষদের সম্মানিত চেয়ারম্যান আমেরিকা প্রবাসী সর্বজনশ্রদ্ধেয় ব্যক্তি রাজনৈতিকবিদ জননেতা এনাম উদ্দিন সাহেবের অনুপস্থিতে,মো সাহাব উদ্দিন চেয়ারম্যান ভারপ্রাপ্ত বর্ণি ইউনিয়ন পরিষদের দায়িত্ব পরিচালনা করা হয়েছে। ১নং বর্ণি ইউনিয়ন বাসীর সহযোগিতায় অতিতে ও দায়িত্ব পরিচালা করেছেন ও ভবিষ্যতে করে যাবার প্রত্যাশা করেন।

বড়লেখার আংশিক এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ থাকবে

বড়লেখার আংশিক এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ থাকবে

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার পল্লী বিদ্যুতের সম্মানিত গ্রাহকসদস্যগণকে জানানো যাচ্ছে যে, আগামীকাল ১১ জানুয়ারি ২০২১ খ্রি. রোজ সোমবার ১১ কেভি মেইন লাইনের রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য সকাল ৭:০০ টা থেকে বিকেল ৩:০০ টা পর্যন্ত ২ এবং ৬ নম্বর ফিডারের আওতাধীন এলাকা অর্থাৎ  বড়লেখা উপজেলা, বড়লেখা বাজার,পানিধার-আংশিক,পাখিয়ালা-আংশিক,গাজীটেকা,তালিমপুর-আংশিক, আদিত্যের মহল,দরগাবাজার,গ্রামতলা - আংশিক,বাহারপুর,গঙ্গারজল,আইলাপুর,জামকান্দি কুলাউড়া,বিছরাবাজার এবং শাহবাজপুর এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ থাকবে। গ্রাহক সদস্যদের সাময়িক এই অসুবিধার জন্য কর্তৃপক্ষ আন্তরিকভাবে দুঃখিত এবং ধৈর্য ধরে বর্ণিত কাজে সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।
অনুরোধক্রমে: কর্তৃপক্ষ
মৌলভীবাজার পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি।

জুড়ীতে সড়ক দুর্ঘটনায় যুবক নিহত

জুড়ীতে সড়ক দুর্ঘটনায় যুবক নিহত

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার হাসনাবাদ এলাকার মৃত মোক্তাদির আলী চেরাগের ছেলে।
হোসাইন আহমদ (২১) নামের এক যুবক পিকআপ ভ্যান ও মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে  মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছে।

রবিবার (১০/০১/২০২১ইং:) দুপুর ১২ ঘটিকার সময় জুড়ী লাঠিটিলা রোডে তৈয়বুন্নেছা খানম সরকারি কলেজের সম্মুখে স্মরনরায় ব্রিজের পাশে পিকআপ ভ্যানের সাথে মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে মোটরসাইকেল আরোহী গুরুতর আহত হন। এলাকাবাসী মোটরসাইকেল আরোহীকে জুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

জুড়ী থানায় অফিসার ইনচার্জ সঞ্জয় চক্রবর্তী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পিক আপ ভ্যানটি আটক করে থানা।

সিরাজগঞ্জে ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে তাঁর প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি ও শীতবস্র বিতরণ

সিরাজগঞ্জে ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে তাঁর প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি ও শীতবস্র বিতরণ

মাসুদ রানা  সিরাজগঞ্জ জেলাপ্রতিনিধিঃ ১০জানুয়ারি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস ও শীতবস্র বিতারণ করেন সংসদ সদস্য তানভীর শাকিল জয়। রতনকান্দি ইউনিয়ন আঃলীগে ভার প্রাপ্ত সভাপতি ছাইদুল ইসলাম জুরানের  সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,
শহীদ এম মনসুর আলীর সুযোগ্য দৌহিত্র,   মোহাম্মদ নাসিমের সুযোগ্য সন্তান, সিরাজগঞ্জ ১ সংসদ সদস্য প্রকৌশলী তানভীর শাকিল জয়।  এসময় উপস্থিতি ছিলেন, কাজিপুর- থানা আঃলীগের সভাপতি সাওকয়াত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান সিরাজী, কাজিপুরের বিনা প্রতিদন্ধিতায় মেয়র হান্নান তালুকদার, প্রস্তাবিত মুনসুর নগর থানা আ. লীগের যুগ্ন সাধারন সম্পাদক ও জেলা পরিষদের  সদস্য গোলাম রব্বানী তালুকদার, ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, সাধারণ সম্পাদক বুলবুল আহমেদ ভুট্টো।
ইউনিয়ন সেচ্ছাসেবক লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সোহেল রানা, ইউনিয়ন ছাত্র লীগের প্রতিষ্ঠাতা আহবায়ক নুরে আলম  রতন, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের  সভাপতি আঃ আলিম খান, সাধারণ সম্পাদক জাকিরুল ইসলাম বাবু সহ সহযোগি অঙ্গসংগঠনের সকল নেতৃবৃন্দ।
সঞ্চালনা করেন ইউনিয়ন আঃলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আলী হোসেন।

বড়লেখায় খাদ্যের নিরাপদতা শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত

বড়লেখায় খাদ্যের নিরাপদতা শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার প্রশাসন, বড়লেখার সহযোগিতায় বাংলাদেশ নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের আয়োজনে আজ বড়লেখা উপজেলায় খাদ্যের নিরাপদতা শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বড়লেখা মোঃ শামীম আল ইমরানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ, বড়লেখার চেয়ারম্যান জনাব সোয়েব আহমেদ।

শ্রীপুর পৌরসভা নির্বাচনের ধানের শীষ প্রার্থীর নির্বাচনী অফিসে হামলা

শ্রীপুর পৌরসভা নির্বাচনের ধানের শীষ প্রার্থীর নির্বাচনী অফিসে হামলা

গাজীপুর প্রতিনিধিঃ শ্রীপুর পৌর নির্বাচনের ধানের শীষের মেয়র পদপ্রার্থী এডভোকেট কাজী খানের নির্বাচর্নী অফিসে তথাকথিত নৌকা প্রার্থী সমর্থিত অর্ধশতাধিক সন্ত্রাসী  আজ দুপুরে ব্যাপক ভাঙ্গচুর এবং বিএনপির মেয়র প্রার্থীসহ অফিসে অবস্থানরত নেতাকর্মীদের মারধর করা হয় এবং মেরে ফেলার চেষ্টা করা হয়।  
পরবর্তীতে অফিসে থাকা টেবিল,গ্লাস, চেয়ার, পোষ্টারসহ নির্বাচনী কাজে ব্যাবহার করা মালামাল ভাংঙ্গচুর করা হয়। ঘটনার পর বিএনপির লোকজন এসে গুরুতর প্রার্থী মোঃ কাজী খান সহ আরও বেশ কিছু নেতাকর্মীদেরকে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

কয়েকজনকে প্রাথমিক চিকিৎসার পর গুরুতর আহত ৫ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।এসময় বিএনপি প্রার্থী এডভোকেট কাজী খান জানান- নির্বাচনে মানুষকে ভয়ভিতী দেখানো এবং জোর করে জয় ছিনিয়ে নেবার উদ্দেশ্যই শুধুমাত্র নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আজ এই হামলা চালানো হয়েছে।

এর আগে গতকাল ধানের শীষের প্রচারনার কাজে ব্যাবহার করা মাইক্রোবাসে হামলা চালানো হয় এবং কয়েকজনকে গুরুতরভাবে পেটানো হয়। তারই ধারাবাহিকতায় আজ আবারও আওয়ামী সন্ত্রাসী দ্বারা এই হামলা চালানো হয়।
এই দুটো ঘটনাতেই রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ জানানো হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।

ধানের শীষ প্রার্থীর অফিসে এমন নেক্কারজনক ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিযেছেন সাধারন জনগন। তারা আরও জানান, নির্বাচনকে সুষ্ঠু করার জন্য হামলাকারীদের দ্রুতই বিচারের আওতায় নিয়ে আসতে হবে।

বড়লেখায় হাকালুকি হাওরে অবৈধ মাছ লুট

বড়লেখায় হাকালুকি হাওরে অবৈধ মাছ লুট

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার হাকালুকি হাওরে সরকার ঘোষিত মৎস্য অভয়াশ্রম নিমু বিলে অবৈধভাবে মাছ ধরার খবর পেয়ে আজ সকাল ৭.০০ ঘটিকায় সেখানে অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বড়লেখা মোঃ শামীম আল ইমরান। ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায় রাতের অন্ধকারে দুষ্কৃতকারীরা অভয়াশ্রম থেকে মাছ লুট করেছে। এ ব্যাপারে নিয়মিত মামলা দায়ের করার কার্যক্রম চলমান আছে।

বড়লেখায় নারীশিক্ষা একাডেমী ডিগ্রী কলেজের নবগঠিত গভর্নিং বডির সভা

বড়লেখায় নারীশিক্ষা একাডেমী ডিগ্রী কলেজের নবগঠিত গভর্নিং বডির সভা

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার নারীশিক্ষা একাডেমী ডিগ্রী কলেজের নবগঠিত গভর্নিং বডির প্রথম সভা আজ উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বড়লেখা ও গভর্নিং বডির সভাপতি মোঃ শামীম আল ইমরানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। কলেজের অধ্যক্ষ জনাব হারুন-উর-রশিদ এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ সভায় গভর্নিং বডির অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

কিশোরগঞ্জে কেন্দ্রীয় কমিটির আওয়ামী নেতা নাফা'র শীতবস্ত্র বিতরণ

কিশোরগঞ্জে কেন্দ্রীয় কমিটির আওয়ামী নেতা নাফা'র শীতবস্ত্র বিতরণ

মোঃ লাতিফুল আজম,নীলফামারী প্রতিনিধিঃ নীলফামারী কিশোরগঞ্জ উপজেলায় মানবতার সেবায় নিরন্তর পথচলা উত্তরবঙ্গ  তথা নীলফামারী কিশোরগঞ্জের কৃতি সন্তান, বঙ্গবন্ধুর আদর্শে গড়া ও জননেত্রী শেখ হাসিনার  অনুপ্রেরণার সংগ্রামী সৈনিক বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা আওয়ামী লীগের অন্যতম সদস্য নাফিউল করিম নাফা'র সৌজন্যে হাড় কাঁপানো শীতে   দুস্থ, পিছিয়ে পড়া ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর ২৫০ জন বয়স্ক নারী-পুরুষ প্রতিবন্ধীদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। রবিবার সকালে উপজেলার গাড়াগ্রাম ইউনিয়নের পশ্চিম দলিরাম চেয়ারম্যান বাড়িতে সুশৃংখল পরিবেশে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে শীতবস্ত্র হিসেবে কম্বল বিতরণ করা হয়। মানবতা মহানুভবতায় শীতবস্ত্র বিতরণ  কালে উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের  কেন্দ্রীয় কমিটির  সাংগঠনিক সম্পাদক  নাফিউল করিম নাফা,  স্বেচ্ছাসেবকলীগের বাহাগিলী ইউনিয়ন শাখার সভাপতি তাজুল ইসলাম, সদর ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক,  যুবলীগের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক রশিদুল ইসলাম বাবু, সাধারণ সম্পাদক রেজাউল  করিম, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক  যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সোহেল রানা প্রমুখ। এ শীতে, শীত নিবারণের উষ্ণতার ছোঁয়া কম্বল হাতে পেয়ে কেউবা গায়ে, কেউবা বুকে  জড়িয়ে আনন্দে উৎফুল্ল হয়ে দিগ্বিদিক ছুটছেন বাড়ির দিকে।

মোংলা পৌর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কাউন্সিলর প্রার্থীর নারীকর্মীকে শ্লীলতহানী

 মোংলা পৌর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কাউন্সিলর প্রার্থীর নারীকর্মীকে শ্লীলতহানী

মোঃএরশাদ হোসেন রনি, মোংলাঃমোংলা পোর্ট পৌরসভার নির্বাচনে ২নং ওয়ার্ডে আ্ওয়ামীলীগ মনোনীত কাউন্সিলর প্রার্থী শরিফুল ইসলামের উটপাখি প্রতীকের নারীকর্মীকে শ্লীলতাহানির চেষ্টা করেছে প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থী জলিল শিকদার ওরফে টাইগার জলিল। কাউন্সিলর প্রার্থী এইচ এম শরিফুল ইসলাম এব্যাপারে জলিল শিকদারের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহি অফিসার, উপজেলা নির্বাচন অফিসার এবং মোংলা থানা অফিসার ইনচার্জ এর কাছে লিখিত অভিযোগ জানিয়েছেন।


লিখিত অভিযোগে আওয়ামীলীগ মনোনীত কাউন্সিলর প্রাথর্ী এইচ এম শরিফুল ইসলাম জানান প্রতিদ্বন্ধি কাউন্সিলর প্রার্থী আব্দুল জলিল শিকদার ওরফে টাইগার জলিল গত ৯ জানুয়ারি বেলা ১২টার সময়ে মোংলার ৭নং কলেজ রোডে উট পাখি প্রতীকের নির্বাচনী প্রচারনার সময় নারীকর্মী লোটাস বেগম স্বামী আলমগীর হোসেনথর মুখের নেকাব খুলে শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে। প্রত্যক্ষদর্শী লিলি বেগম এবং নাসিমা বেগম জলিল শিকদারের বিরুদ্ধে আনীত শ্লীলতাহানির অভিযোগের সত্যতা স্বীকার করেছেন। ১০ জানুয়ারি রবিবার বেলা ১২টায় মোংলা প্রেসক্লাবে সাংবাদিক সম্মেলনে কাউন্সিলর প্রার্থী এইচ এম শরিফুল ইসলাম বলেন জলিল শিকদার একজন ভয়ংকর সন্ত্রাসী এবং বৈধ অস্ত্র ব্যবহার করে নিরীহ ভোটারদের ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। দিনে দুপুরে নারীকর্মীর শ্লীলতাহানির অভিযোগে জলিল শিকদার ওরফে টাইগার জলিলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করছি। এবিষয়ে জানতে চাইলে মোংলা থানার ওসি মোঃ ইকবাল বাহার চৌধুরী বলেন অভিযোগ পেয়েছি বিষয়টি নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেটথর তদন্ত করছেন। নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেট নয়ন কুমার রাজবংশী জানান অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে ঘটনাস্থলে যাই কিন্তু অভিযুক্ত জলিল শিকদার ওরফে টাইগার জলিলকে পাওয়া যায়নি। আইন-শৃংখলা বাহিনীসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে সতর্ক থাকতে বলেছি যাতে ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে।

নাগরপুরে শেখ মুজিবুর রহমানের স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া মাহফিল

নাগরপুরে শেখ মুজিবুর রহমানের স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া মাহফিল

ডা.এম.এ.মান্নান,টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি:
টাঙ্গাইলের নাগরপুরে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর স্ব-দেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে নাগরপুর উপজেলা আওয়ামীলীগ এর উদ্যোগে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠান হয়। 

আজ রবিবার,১০ জানুয়ারি ২০২১ খ্রি. সকালে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পূষ্পমাল্য অর্পনের মধ্য দিয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ে আলোচনা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে।

দোয়া মাহফিলে বঙ্গবন্ধু ও প্রধান মন্ত্রীর পরিবারের সু-স্বাস্থ্য ও নেক হায়াত কামনায় আল্লাহর নিকট প্রার্থনা করা হয়। 

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ জাকিরুল ইসলাম উইলিয়ামের সভাপতিত্বে আলোচনা ও দোয়া মাহফিলে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মোঃ মতিয়ার রহমান মতি, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক মোঃ আরশেদ হোসেন চঞ্চল, প্রচার সম্পাদক মোঃ খালিদ হোসেন, যুব ও ক্রিড়া বিষয়ক সম্পাদক এ,বি,এম, জহুরুল আমিন, মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা রওশন আরা মাসুদ, শিক্ষা ও মানব কল্যান বিষয়ক সম্পাদক মোঃ আব্দুর রাজ্জাক, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক মোঃ দেলোয়ার আহম্মেদ দিলদার, সদস্য তাজুল ইসলাম তাজ, আতিকুর ইসলাম নিল্টু, মোঃ আওলাদ হোসেন লিটন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি বাবর আল মামুন, নাগরপুর সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি আল মামুন, টাংগাইল জেলা আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগের সদস্য কাজী গোলাম মাহবুব বাবু, মৎস্যজীবী লীগের সদস্য ও ধুবড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগের আহ্বায়ক মোঃ কবির হোসেন, টাংগাইল জেলা ছাএলীগ এর সদস্য মোঃ ইয়ারোফ হোসেন প্রমুখ। 

উপজেলা আওয়ামী লীগ ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সরাইলে "জেকেএফ " এর আর্থিক সহায়তা পেল থ্যালেসেমিয়া রোগি ফরহাদ

সরাইলে "জেকেএফ " এর আর্থিক সহায়তা পেল থ্যালেসেমিয়া রোগি ফরহাদ

টাংগাইল জেলা প্রতিনিধিঃ যুব খান ফাউন্ডেশন(জেকেএফ)এর পক্ষ থেকে সরাইলে থ্যালাসেমিয়া রোগি মো.ফরহাদকে চিকিৎসার জন্য নগদ অর্থ প্রদান করা হয়। শনিবার (৯ জানুয়ারি) বিকেলে সরাইল থানার শাহবাজপুর ইউনিয়ন এর মোড়াহাটির গ্রামের হত দরিদ্র চাঁন মিয়ার বাড়িতে উপস্থিত হয়ে তার অসুস্থ ছেলে ফরহাদের হাতে আর্থিক সহায়তা তুলে দেন সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা মোঃ রাইসুল ইসমাইল খান। জানা গেছে দীর্ঘদিন ধরেই থ্যালেসেমিয়া ও এনেমিক হার্ট ফেলিওর রোগে ভুগছেন কিশোর ফরহাদ।  ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সরাইল থানায় থ্যালেসেমিয়া ও এনেমিক হার্ট ফেলিওর রোগে আক্রান্ত কিশোর কে  "জেকেএফ সুস্বাস্থ্যের বন্ধু "  প্রজেক্ট এর মাধ্যমে এ সহায়তা প্রদান করেছে সরাইলের গৌরবময় অরাজনৈতিক সেচ্ছাসেবী সংগঠন 'যুব খান ফাউন্ডেশন'।
এ আর্থিক সহায়তা পেয়ে "যুব খান ফাউন্ডেশন " এর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে ফরহাদ এর বাবা ও মা। 

"জেকেএফ" এর ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা  নিয়ে জানতে চাইলে সংগঠনের সদস্য ডা.এম.এ.মান্নান বলেন, শুধু মাত্র আল্লাহর সন্তুষ্টির জন্য ও অসহায় মানুষের পাশে দাড়াঁতে আমাদের এ মহৎ উদ্দেশ্য। সবাই দোয়া করবেন "জেকেএফ" জন্য।

আর্থিক সহায়তা দেওয়ার সময়, উপস্থিত ছিলেন "যুব খান ফাউন্ডেশন" এর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ও পরিচালক মোঃ রাইসুল ইসমাইল খান, সময়ের আলো পত্রিকার সরাইল নাসিরনগর এর প্রতিনিধি শেখ সিরাজুল ইসলাম সহ এলাকার গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ।

পাবলিক স্কুলে পাঠ্যবই বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত

 পাবলিক স্কুলে পাঠ্যবই বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত

মামুনুর রশিদ দিনাজপুর প্রতিনিধি ॥  ইংরেজি নববর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শ্রেষ্ঠ উপহার বিনামূল্যে নতুন পাঠ্যবই বিতরনের অংশ হিসেবে ১০ জানুয়ারি'২০২১ ইং দিনাজপুর সদরের ৪ নং শেখপুরা ইউপি এলাকার মাস্তান বাজার মোড়স্থ অবস্থিত হোলিটাচ্ পাবলিক স্কুলের শিক্ষার্থীদের মাঝে বিনামূল্যে নতুন পাঠ্যবই বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়েছে। 
সামাজিক দুরুত্ব বজায় রেখে এবং স্বাস্থ্যবিধি নিয়ম মেনে উক্ত বই বিতরণ কার্যক্রমে শিক্ষার্থীদের মাঝে বই বিতরণ করেন প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আলহাজ্ব মোঃ আব্দুর রশিদ, স্কুলের অধ্যক্ষ মোঃ শাহিনুর ইসলাম, উপদেষ্টা আহসানুজ্জামান চঞ্চল প্রমূখ।
 

অভয়নগরে ট্রাকচাপায় প্রাণ গেল নড়াইলের দুই যুবকের

অভয়নগরে ট্রাকচাপায় প্রাণ গেল নড়াইলের দুই যুবকের

মো: আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টার নড়াইলঃযশোর : যশোরের অভয়নগরে ট্রাক চাপায় নড়াইলের দুই যুবক নিহত হয়েছেন।শনিবার সকালে উপজেলার নওয়াপাড়ায় যশোর-খুলনা মহাসড়কের সরদার মিল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- নড়াইলের জেলার শেখহাটি ইউনিয়নের পঁচিশা গ্রামের মো আছিয়ার মোল্যার ছেলে রানা মোল্যা (২৬) ও একই এলাকার হালিম হাওলাদারের ছেলে নাসির হাওলাদার (২৫)। নিহত নাসিরের মামা মুজিবর রহমান এ প্রতিবেদককে জানান, আমার ভাগ্নে নাসির ও তার খালু রানা মোল্যা ব্লেজার ও কাপড় কেনার জন্য মোটরসাইকেলে করে নওয়াপাড়ার বাজারে আসার পথে খুলনাগামী একটি আলুবোঝাই ট্রাক তাদের চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়।নওয়াপাড়া হাইওয়ে থানার ওসি শাহাবুদ্দিন চৌধুরী জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে ২ যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ট্রাকটি আটকের চেষ্টা চলছে।

বাংলাদেশের জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন দূর্বার তারুণ্যের চট্টগ্রাম জেলা শাখা কমিটি ঘোষণা

বাংলাদেশের জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন দূর্বার তারুণ্যের চট্টগ্রাম জেলা শাখা কমিটি ঘোষণা

অনলাইন ডেক্সঃ নানা জল্পনা-কল্পনা, আলোচনা -সমালোচনার ইতি ঘটিয়ে অবশেষে গতকাল রাতে দেয়া হল বাংলাদেশের জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন দূর্বার তারুণ্যের চট্টগ্রাম জেলা শাখার কমিটি।

সংগঠনটি তাদের কেন্দ্রীয় কমিটি পূর্ণাঙ্গ ঘোষণা দেয়ার পর থেকেই একের পর এক জেলা কমিটি দিয়ে যাচ্ছে। তবে চট্টগ্রাম জেলা কমিটি নিয়ে তারা কালক্ষেপণ কম করেন নি। তার পেছনে কারনও ছিল বটে। এই চট্টগ্রাম থেকেই জন্ম নেয় আজকের জাতীয় জনপ্রিয় সামাজিক সংগঠন দূর্বার তারুণ্য। অন্যদিক থেকে এই সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ও বর্তমানে কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মুহাম্মদ আবু আবিদও চট্টগ্রামে বসবাস করছেন। তাই চট্টগ্রাম দূর্বার তারুণ্যের দূর্গ হিসেবে-ই পরিচিত। চট্টগ্রামের বিভিন্ন স্তর থেকে দূর্বার তারুণ্যের সাথে কাজ করার জন্য পেইজে সিভি জমা পড়ে। চলে যাচাই-বাছাই। 


অবশেষে দূর্বার তারুণ্য এর চট্টগ্রাম জেলা শাখার সভাপতি শেখ আরিফ উল্লাহ চৌধুরী ও সাধারন সম্পাদক চিরনজিৎ বড়ুয়া নির্বাচিত হোন। 

কমিটি কেন এত দেরিতে দেয়া হল? কেন বারবার সময় পেছানো হল? তবে কেন্দ্রীয় কমিটির উপর কি কোন চাপ প্রয়োগ করা হচ্ছে?  আবিদ কেন লাইভে নেই,অনেকদিন? এসকল প্রশ্ন নিয়ে গুঞ্জন শুরু হয় নানান মহলে। একাধিকবার মুহাম্মদ আবু আবিদ-এর সাথে মুঠোফোনে এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলেও তিনি সকল প্রশ্নের জবাব একসাথে দিবেন বলে আশ্বস্ত করেন।

গতকাল কমিটি দেয়ার কিছুক্ষন আগে অনেকদিন পর আবার লাইভে আসেন,সংগঠনটির স্বপ্নদ্রষ্টা ও কেন্দ্রীয় সভাপতি মুহাম্মদ আবু আবিদ। এসময়ে তিনি এতদিন অপেক্ষা করিয়ে রাখার জন্য প্রথমেই ক্ষমা চান গণমাধ্যম কর্মীদের কাছে। 

তিনি বলেন, আমি শারীরিকভাবে অসুস্থ ছিলাম।  তবে আপনাদের দোয়ায় করোনা থেকে এখনও পরম সৃষ্টিকর্তা আমায় অনেক দূরে রেখেছেন। ঠান্ডাজনিত সমস্যায় ভুগছিলাম। একদিকে আমি অসুস্থ, অন্যদিকে ১১০০ এর অধিক এপ্লাই থেকে আমাদের ৯১ জন বাছাই করতে যেয়ে এত সময় লেগেছে। আর শুধু চট্টগ্রাম ই নয়,পুরো বাংলাদেশ জুড়ে যত কমিটি আমাদের দেয়া হচ্ছে,  সবগুলোতে আমিই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকি। তাই এখানে বিতর্কের কিছু আছে বলে আমি মনে করি না। তিনি আরও বলেন,  যারা কমিটি তে চান্স পাবেন না, তাদের জন্যও আমাদের দরজা উন্মুক্ত। তাদের পরিচয় হবে, দূর্বার তারুণ্যের স্বেচ্ছাসেবক। আমিও এখানকার একজন স্বেচ্ছাসেবক বলে মনে করি।


তবে গতকাল রাতে মুহাম্মদ আবু আবিদ এর মুঠোফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও পাওয়া যায় নি। আজ দুপুরে এ বিষয়ে তাকে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, কমিটি সাজানো নিয়ে ক্লান্ত ছিলাম আর কিছু উড়ন্ত ফোন আসবে বলেই একটু গোপনে ছিলাম। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমার আত্মীয় নাকি রক্ত তা আমি দেখি না। আমি দেখি সামাজিক কাজের প্রতি ইচ্ছা আর বিশ্বস্ততা। তাই যে যা ই বলুক,  আমি আমার নীতি ও আদর্শের মধ্যে থেকেই কমিটি সম্পন্ন করেছি।

উল্লেখ্য যে, এ কমিটি নিয়ে সমালোচনা না উঠলেও পদ বঞ্চিতদের মধ্যে কেউ কেউ হতাশ হয়েছেন। তবে সকলেই তারা দূর্বার তারুণ্য-এর সাথে থাকবেন বলে জানায়।

আরো উল্লেখ্য যে, গতকাল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের নিউজ ফিড জুড়ে শুধু অভিনন্দন আর কৃতজ্ঞতার পোস্ট দেখা গিয়েছে৷ ফেসবুকে রাজনৈতিক, সামাজিক ব্যক্তিবর্গসহ অনেকেই এ কমিটিকে সাদরে অভিনন্দন জানায়। 

দেশ ও সমাজের জন্য তরুণদের তৈরি করে এগিয়ে  যাবে দূর্বার তারুণ্য, এই আশা সাধারণ মানুষের।

সরকার পতনের হুমকি! পটিয়ায় তারেক জিয়াসহ বিএনপি নেতা এনামের কুশপুত্তলিকা দাহ

সরকার পতনের হুমকি! পটিয়ায় তারেক জিয়াসহ বিএনপি নেতা এনামের কুশপুত্তলিকা দাহ

পটিয়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ- পলাতক তারেক জিয়া'র দক্ষিণ চট্টগ্রামের সন্ত্রাসের এজেন্ড বিএনপি নেতা এনামূল হক এনাম সম্প্রতি পটিয়া একটি কর্মী সভায় অস্ত্র ও সন্ত্রাসের মাধ্যমে সরকার পতন করার হুমকি'র প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে আওয়ামীলীগ। শনিবার বিকেলে পটিয়া উপজেলার শান্তিরহাট এলাকায় কুসুমপুরা ও জিরি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের যৌথ উদ্যোগে এক বিক্ষোভ মিছিল মহাসড়ক প্রদক্ষিণ শেষে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

জিরি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি আজিমূল হক এর সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা আ'লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক এম এ এজাজ চৌধুরী। কুসুমপুরা ইউনিয়ন আ'লীগ সাধারন সম্পাদক এড.এম হোসাইন রানা'র সঞ্চালনায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আ'লীগ শিক্ষা ও মানব বিষয়ক সম্পাদক নাছির উদ্দিন, ত্রাণ সম্পাদক মো: এমরান, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পাদক আবু সুফিয়ান টিপু, জিরি ইউনিয়ন আ'লীগ সাধারন সম্পাদক আমিনুল ইসলাম টিপু, কোলাগাঁও সভাপতি আবু জাফর, সাধারন সম্পাদক বদিউল আলম তুষার, উপজেলা শ্রমিকলীগ সভাপতি চেয়ারম্যান সামশুল ইসলাম, আ'লীগ নেতা মাথায় চন্দ্র নাথ, নাছির উদ্দিন, জসিম উদ্দিন, সরওয়ার উদ্দিন, শফর আলী চৌদুরী, বেলাল উদ্দিন চৌধুরী, উপজেলা মৎস্যজীবি সভাপতি সাইফুল ইসলাম, তাতীলীগ সভাপতি নুরুল আলম, জেলা যুবলীগ নেতা আসহাব উদ্দিন, উপজেলা যুবলীগ নেতা মাস্টার রিটন নাথ, জসিম উদ্দিন বাবু, আবুল কাশেম আকাশ, শাহ আজিজ, নুরুল ইসলাম নুরু, ফেরদৌস, ওয়াহিদ, কোরবান আলী, ছাত্রলীগ নেতা আবু সাইদ তানভীর, মহিউ্িদন, শাহ জলিল, সালাউদ্দিন, সরওয়ার, জানে আলম, নাজমূল সাকের ছিদ্দিকী, আরাফাত শাকিল, আবদুল্লাহ আল নোমান, শওকত, ইসমাইল, জাহাঙ্গীরসহ বিভিন্ন ওয়ার্ড আ'লীগ সভাপতি সম্পাদক, যুবলীগ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বক্তব্য রাখেন।

প্রতিবাদ সভায় বক্তারা বলেন, সম্প্রতি পটিয়ার একটি অনুষ্ঠানে গিয়ে সরকার উৎখাতে অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে মাঠে নামার জন্য নেতাকর্মীদের হুঙ্কার দেন। অস্ত্র নিয়ে মাঠে নেমে সরকার পতনের উচ্ছেদ হুমকি বিএনপি নেতা এনামের বক্তব্য খুবই দুঃখজনক। বিএনপি ক্ষমতা হারিয়ে পাগলে প্রলাপ বখছে। যুবলীগ নেতা বাচা হত্যা মামলার আসামী এনামের অস্ত্রে'র সন্ধান খুজেঁ বের করে তাকে আইনের আওতায় এনে বিচারের দাবি জানিয়ে বক্তারা বলেন, অভিলম্ভে এনামের এ বক্তব্য প্রত্যাহার করা না হলে তাকে পটিয়াতে অবাঞ্চিতসহ প্রতিহত করতে পটিয়ার সর্বস্তরের জনগণের প্রতি আহবান জানান। প্রধান অতিথি এজাজ চৌধুরী বলেন,সরকার পতন এত সহজ নয় আওয়ামীলীগ বানের পানিতে ভেসে আসা দল নয়, এনা যে বক্তব্য দিয়েছে সেটি রাষ্ট্রদোহীতার আওতায় পড়ে। এজাজ চৌধুরী সরকারের বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থা কে পটিয়া বিএনপি নেতার অস্ত্র ভান্ডার বের করার আহবান জানান। তিনি আরোও বলেন, পটিয়ার এমপি জাতীয় সংসদের হুইপ সাময়িক অসুস্থ এর সুযোগ নেওয়ার পায়তারা করছে এই সুযোগ আওয়ামীলীগ আপনাকে দেবে না আগামীতে পটিয়া আপনাকে মোকাবেলা করবে। এদিকে পটিয়া পৌরসভার জাতীয় শ্রমিকলীগের সভাপতি শফিকুল ইসলাম  শফি, সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হক মাজু এক বিবৃতিতে এনামুল হক এনামের বক্তব্য  কটোর  সমালোচনা করে পটিয়া পৌর এলাকার বিএনপি  নেতা এনামুল হক'কে প্রতিহত করার ঘোষণা দেন।

গঙ্গানন্দপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন

গঙ্গানন্দপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন

স্টাফ রিপোর্টারঃ গঙ্গানন্দপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন করা হয়। আজ স্বর্বকালের স্বর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস। এ উপলক্ষ্যে যশোর জেলার ঝিকরগাছা উপজেলার গঙ্গানন্দপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে সকাল ১০ টার সময় আলোচনা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। 
উক্ত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রতিষ্ঠান পরিচালনা পর্ষদ এর সভাপতি আমিনুর রহমান। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রধান শিক্ষক মোস্তাফিজুর রহমান, পরিচালনা পর্ষদ এর বিদ্যুৎসাহী সদস্য প্রভাষক মহসীন আলী, সদস্য বিপ্লব হোসেন, কামারুল ইসলাম, সামসুর রহমান, সহকারী প্রধান শিক্ষক রেজাউল হক, সিনিয়র শিক্ষক শাহাজ্জাদুল ইসলাম সহ  সকল শিক্ষক কর্মচারী। 

সাপ্তাহিক সেরা কবির সম্মাননা পেলেন ফাতিমা পারভীন

 সাপ্তাহিক সেরা কবির সম্মাননা পেলেন ফাতিমা পারভীন

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: সাপ্তাহিক সেরা কবির সম্মাননা পেলেন শিক্ষক ও কবি ফাতিমা পারভীন। গত ৫ ই জানুয়ারি ২০২১ সৃষ্টির উল্লাসে, বিশুদ্ধ সাহিত্যচর্চার লক্ষে গড়া "জাতীয় কবি ভুবন (জাকভ) "এর কাছ থেকে সেরা সাপ্তাহিক কবির সম্মাননা স্মারক প্রাপ্ত হয়েছেন শিক্ষক ও বিশিষ্ট কবি ফাতিমা পারভীন। তার এই স্মারক ও সম্মাননা প্রাপ্তিতে প্রাপ্তিতে দৈনিক কপোতাক্ষ নিউজ এর সম্পাদক ও প্রকাশক প্রভাষক মহসীন আলী শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জ্ঞাপন করেছেন এবং উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করেছেন।

লাকসাম জার্মানীর যুবসংস্থার উদ্যােগে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃত্তিপ্রদান

লাকসাম জার্মানীর যুবসংস্থার উদ্যােগে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃত্তিপ্রদান

লাকসাম  প্রতিনিধিঃ কুমিল্লার লাকসামে জার্মানীর যুবসংস্থা JUGENDFORDERUNG E.V. (BANGLADESH) সংগঠনের উদ্যোগে উপজেলার বিভিন্ন স্কুল ও কলেজে অধ্যয়নরত মেধাবী ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার (৯ জানুয়ারি) সকালে সংস্থার কুমিল্লা অঞ্চলের কো-অর্ডিনেটর আলহাজ মোঃ মফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাহাবুদ্দিন তুহিনের পরিচালনায় নশরতপুর প্রাথমিক বিদ্যালয় মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের হাতে টাকা তুলে দেন, অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, খিলা আজিজ উল্যাহ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মুনীর আহমেদ।  
লাকসাম রেলওয়ে হাইস্কুলের ধর্মীয় শিক্ষক মাওলানা জসিম উদ্দিনসহ বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। 
 উল্লেখ্য, ২০১০ সাল থেকে এ সংস্থার উদ্যোগে অত্রাঞ্চলে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃত্তিপ্রদান কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। তম্মধ্যে ৬ষ্ঠ-৮ম শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের প্রতি মাসে ৫শ' টাকা, ৯ম-১০ম শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীদের ৭শ' টাকা ও একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ১ হাজার ১শ' টাকা হারে প্রদান করা হয়।

বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে সাতক্ষীরা পৌর শাখার র্যালি অনুষ্ঠিত

বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে সাতক্ষীরা পৌর শাখার র্যালি অনুষ্ঠিত

আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টারঃ সাতক্ষীরায় বনাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে পালিত হয়েছে, বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের ১৭ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী। 

শনিবার (৯ জানুয়ারি)  সকাল ১০ টায় বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদ সাতক্ষীরা পৌর শাখার উদ্যোগে,  ৯ টি ওয়ার্ডের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এর সমন্বয়ে, পৌর সভাপতি মোঃ আসাদুজ্জামান লাভলু ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ জাহাঙ্গীর আলম এর নেতৃত্বে, শহীদ আব্দুর রাজ্জাক পার্ক হতে বিশাল এক র্যালি সহযোগে, প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর সমাবেশ স্থলে মিলিত হয়।

র্যালিতে আরো অংশ নেয় বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের সাতক্ষীরা পৌর শাখার সহ সভাপতি ও পৌর ২ নং ওয়ার্ড এর সভাপতি মোঃ সিরাজুল ইসলাম, পৌর ২ নং ওয়ার্ড শাখার মন্টু দাশ, পৌর ১ নং ওয়ার্ড শাখার সভাপতি মোঃ আনারুল ইসলামসহ প্রতিটি ওয়ার্ডের কয়েকশতাধীক নেতাকর্মী। 

র্যালি শেষে সাতক্ষীরা পি এন হাই স্কুল ময়দানে বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের সাতক্ষীরা জেলা সভাপতি এডভোকেট আল মাহমুদ পলাশ এর সভাপতিত্বে বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের১৭ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ নজরুল ইসলাম।

১৭ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর উদ্বোধন ঘোষণা করেন, বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি কৃষিবিদ মোঃ জহিরউদ্দিন মবু,
এসময় উপস্থিত ছিলেন, দৈনিক কালের চিত্র সম্পাদক ও সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সভাপতি অধ্যক্ষ আবু আহমেদ, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক হারুণ অর রশিদ, বঙ্গবন্ধু পেশাজীবী পরিষদের জাতীয় নেত্রী মোঃ শাহানারা খাতুন শানু সহ কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় সকল নেতা কর্মী।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ

নিউজ ডেস্কঃ  আজ ১০ জানুয়ারি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস। পাকিস্তানের বন্দীদশা থেকে মুক্তি পেয়ে ১৯৭২ সালের এদিন তিনি সদ্য স্বাধীন বাংলাদেশের মাটিতে প্রত্যাবর্তন করেন।

এর আগে ৮ জানুয়ারি পাকিস্তানের মিয়ানওয়ালি কারাগারে দীর্ঘ ৯ মাস কারাভোগের পর মুক্তি লাভ করেন তিনি। পরে তিনি পাকিস্তান থেকে লন্ডন যান। তারপর দিল্লী হয়ে ঢাকা ফেরেন বঙ্গবন্ধু।

দিবসটি পালন উপলক্ষে আওয়ামী লীগ ও দলের বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনসহ বিভিন্ন দল ও সংগঠন ব্যাপক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়, বঙ্গবন্ধু ভবন ও সারাদেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় ও জাতীয় পতাকা উত্তোলন, জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পুষ্পাঞ্জলি নিবেদন এবং আলোচনা সভা।

দিবসটি উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাণী প্রদান করেছেন।

১৯৭১ সালের ২৬ মার্চের প্রথম প্রহরে বাংলাদেশের স্বাধীনতা ঘোষণা করে বঙ্গবন্ধু সর্বস্তরের জনগণকে মুক্তিযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়ার আহ্বান জানান। স্বাধীনতা ঘোষণার অব্যবহিত পর পাকিস্তানের সামরিক শাসক জেনারেল ইয়াহিয়া খানের নির্দেশে তাঁকে গ্রেফতার করে তদানীন্তন পশ্চিম পাকিস্তানের কারাগারে নিয়ে আটক রাখা হয়।

১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর পাকিস্তানি সৈন্যদের বিরুদ্ধে নয় মাস যুদ্ধের পর চূড়ান্ত বিজয় অর্জিত হলেও ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের মধ্য দিয়ে জাতি বিজয়ের পূর্ণ স্বাদ গ্রহণ করে।

জাতির পিতা পাকিস্তান থেকে ছাড়া পান ১৯৭২ সালের ৭ জানুয়ারি ভোর রাতে ইংরেজি হিসেবে ৮ জানুয়ারি। এদিন বঙ্গবন্ধু ও ড. কামাল হোসেনকে বিমানে তুলে দেয়া হয়। সকাল সাড়ে ৬টায় তাঁরা পৌঁছান লন্ডনের হিথরো বিমানবন্দরে। বেলা ১০টার পর থেকে বঙ্গবন্ধু কথা বলেন, ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী এডওয়ার্ড হিথ, তাজউদ্দিন আহমদ ও ভারতের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীসহ অনেকের সঙ্গে। পরে ব্রিটেনের বিমান বাহিনীর একটি বিমানে করে পরের দিন ৯ জানুয়ারি দেশের পথে যাত্রা করেন।

দশ তারিখ সকালেই তিনি নামেন দিল্লীতে। সেখানে ভারতের রাষ্ট্রপতি ভিভি গিরি, প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী, সমগ্র মন্ত্রিসভা, প্রধান নেতৃবৃন্দ, তিন বাহিনীর প্রধান এবং অন্যান্য অতিথি ও সেদেশের জনগণের কাছ থেকে উষ্ণ সংবর্ধনা লাভ করেন সদ্য স্বাধীন বাংলাদেশের পিতা শেখ মুজিবুর রহমান। বঙ্গবন্ধু ভারতের নেতৃবৃন্দ এবং জনগণের কাছে তাদের অকৃপণ সাহায্যের জন্য আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানান। তাঁর এই স্বদেশ প্রত্যাবর্তনকে আখ্যায়িত করেছিলেন 'অন্ধকার হতে আলোর পথে যাত্রা হিসেবে।'

এদিন বেলা ১টা ৪১ মিনিটে তিনি ঢাকা এসে পৌঁছেন। চূড়ান্ত বিজয়ের পর ১০ জানুয়ারি বাঙালি জাতি বঙ্গবন্ধুকে প্রাণঢালা সংবর্ধনা জানানোর জন্য প্রাণবন্ত অপেক্ষায় ছিল। আনন্দে আত্মহারা লাখ লাখ মানুষ ঢাকা বিমান বন্দর থেকে রেসকোর্স ময়দান পর্যন্ত তাঁকে স্বতঃস্ফূর্ত সংবর্ধনা জানান। বিকাল পাঁচটায় রেসকোর্স ময়দানে প্রায় ১০ লাখ লোকের উপস্থিতিতে তিনি ভাষণ দেন।

পরের দিন দৈনিক ইত্তেফাক, সংবাদসহ বিভিন্ন পত্রিকায় বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন নিয়ে এভাবেই লিখা হয়- 'স্বদেশের মাটি ছুঁয়ে বাংলাদেশের ইতিহাসের নির্মাতা শিশুর মতো আবেগে আকুল হলেন। আনন্দ-বেদনার অশ্রুধারা নামলো তার দু'চোখ বেয়ে। প্রিয় নেতাকে ফিরে পেয়ে সেদিন সাড়ে সাত কোটি বাঙালি আনন্দাশ্রুতে সিক্ত হয়ে জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু ধ্বনিতে প্রকম্পিত করে তোলে বাংলার আকাশ-বাতাস।'

জনগণ নন্দিত শেখ মুজিব সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে দাঁড়িয়ে তাঁর ঐতিহাসিক ধ্রুপদি বক্তৃতায় বলেন, 'যে মাটিকে আমি এত ভালবাসি, যে মানুষকে আমি এত ভালবাসি, যে জাতিকে আমি এত ভালবাসি, আমি জানতাম না সে বাংলায় আমি যেতে পারবো কিনা। আজ আমি বাংলায় ফিরে এসেছি বাংলার ভাইয়েদের কাছে, মায়েদের কাছে, বোনদের কাছে। বাংলা আমার স্বাধীন, বাংলাদেশ আজ স্বাধীন।

সশ্রদ্ধ চিত্তে তিনি সবার ত্যাগের কথা স্মরণ করেন এবং সবাইকে দেশ গড়ার কাজে উদ্বুদ্ধ করে বলেন, 'আজ থেকে আমার অনুরোধ, আজ থেকে আমার আদেশ, আজ থেকে আমার হুকুম ভাই হিসেবে, নেতা হিসেবে নয় প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নয় প্রেসিডেন্ট হিসেবে নয়। আমি তোমাদের ভাই, তোমরা আমার ভাই। এ স্বাধীনতা আমার পূর্ণ হবে না যদি বাংলার মানুষ পেট ভরে ভাত না পায়, এ স্বাধীনতা আমার পূর্ণ হবে না যদি বাংলার মা-বোনেরা কাপড় না পায়, এ স্বাধীনতা আমার পূর্ণ হবে না যদি এদেশের যুবক যারা আছে তারা চাকরি না পায়। মুক্তিবাহিনী, ছাত্র সমাজ তোমাদের মোবারকবাদ জানাই তোমরা গেরিলা হয়েছো, তোমরা রক্ত দিয়েছো, রক্ত বৃথা যাবে না, রক্ত বৃথা যায় নাই।

বঙ্গবন্ধু বলেন, 'একটা কথা- আজ থেকে বাংলায় যেন আর চুরি-ডাকাতি না হয়। বাংলায় যেন আর লুটতরাজ না হয়। বাংলায় যারা অন্য লোক আছে অন্য দেশের লোক, পশ্চিম পাকিস্তানের লোক বাংলায় কথা বলে না, তাদের বলছি তোমরা বাঙালি হয়ে যাও। আর আমি আমার ভাইদের বলছি তাদের উপর হাত তুলো না আমরা মানুষ, মানুষ ভালোবাসি। 'তবে যারা দালালি করেছে যারা আমার লোকদের ঘরে ঢুকে হত্যা করেছে তাদের বিচার হবে এবং শাস্তি হবে' উল্লেখ করে জাতির পিতা বলেন, 'তাদের বাংলার স্বাধীন সরকারের হাতে ছেড়ে দেন, একজনকেও ক্ষমা করা হবে না। তবে আমি চাই স্বাধীন দেশে স্বাধীন আদালতে বিচার হয়ে এদের শাস্তি হবে। আমি দেখিয়ে দিতে চাই দুনিয়ার কাছে শান্তিপূর্ণ বাঙালি রক্ত দিতে জানে, শান্তিপূর্ণ বাঙালি শান্তি বজায় রাখতেও জানে।'

বঙ্গবন্ধু বলেন, 'আমায় আপনারা পেয়েছেন। আমি আসছি। জানতাম না আমার ফাঁসির হুকুম হয়ে গেছে আমার সেলের পাশে, আমার জন্য কবর খোড়া হয়েছিলো। আমি প্রস্তুত হয়েছিলাম, বলেছিলাম আমি বাঙালি, আমি মানুষ, আমি মুসলমান, মুসলমান একবার মরে দুইবার মরে না। আমি বলেছিলাম, আমার মৃত্যু আসে যদি আমি হাসতে হাসতে যাবো। আমার বাঙালি জাতকে অপমান করে যাবো না, তোমাদের কাছে ক্ষমা চাইবো না। এবং যাবার সময় বলে যাবো জয় বাংলা, স্বাধীন বাংলা, বাঙালি আমার জাতি, বাংলা আমার ভাষা, বাংলার মাটি আমার স্থান।'