চৌগাছায় চাকরিচ্যুতির ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার দাবি

চৌগাছায় চাকরিচ্যুতির ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার দাবি

 নিউজ ডেস্কঃ যশোরের চৌগাছার একটি মামলার তদন্ত কর্মকর্তার দেয়া মিথ্যা তথ্যের ভিত্তিতে জামিরা গ্রামের সোয়েব আক্তারকে পুলিশ বাহিনী থেকে চাকরিচ্যুতির ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার দাবি করা হয়েছে। পাশাপাশি চাকরি ফিরে পেতে এবং ওই তদন্ত কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা দাবিতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার প্রেসক্লাব যশোরে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে সোয়েব আক্তার এ দাবি জানিয়েছেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, ইউপি মেম্বর আনোয়ার হোসেন, সোয়েব আক্তারের পিতা মোশারফ হোসেন, মা জেসমিন বেগম, বোন পাপিয়া খাতুন, চাচা আব্দুর রাজ্জাক, আব্দুর রহিম, মিজানুর রহমান, রিয়াজুদ্দিন, তবিউল ইসলাম, আজিজুর রহমান প্রমুখ।

লিখিত বক্তব্যে সোয়েব আক্তার বলেন, কিছুদিন আগে তার বাংলাদেশ পুলিশের কনস্টেবল পদে চাকরি হয়। প্রশিক্ষণ চলাকালীন সময়ে তাকে চাকরিচ্যুত করা হয়। ২০১৭ সালের ৬ মার্চ উপজেলার জামিরা গ্রামে একটি মারামারির ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনার মামলায় একই গ্রামের মোশারফ হোসেন ফাজুর ছেলে সাইফ আসামি ছিল। তার পিতার নাম মোশারফ হোসেন হওয়ায় সোয়েব আক্তার এ দুর্ভোগের শিকার হয়েছে।

এরপর ২০১৯ সালের ২৪ আগস্ট সোয়েব আক্তারের বাংলাদেশ পুলিশের কনস্টেবল পদে চাকরিতে খুলনা পুলিশ ট্রেনিং সেন্টারে যোগদান করেন। ৫ মাস ট্রেনিং শেষে চৌগাছা থানার ওই মামলায় আসামি দেখিয়ে সোয়েবকে চাকরিচ্যুত করা হয়। প্রকৃত পক্ষে এ আসামি সোয়েব নয়। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তৎকালিন চৌগাছা থানা এবং বর্তমানে কোতয়ালি মডেল থানার এসআই শাহিনুর রহমান মিথ্যা তথ্য সরবরাহ করায় তাকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে বলে সংবাদ সম্মেলনে দাবি করেন। একই সাথে তদন্ত কর্মকর্তা এসআই শাহিনুরের বিরুদ্ধে সুষ্ঠু তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণসহ চাকরি ফিরে পেতে তিনি প্রধানমন্ত্রীর আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ।

সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির সুস্থতা কামনা করে গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের দোয়া

সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির সুস্থতা কামনা করে গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের দোয়া

হুদা মালী শ্যামনগর প্রতিনিধি: সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সংগ্রামী সভাপতি, সাবেক সাংসদ বর্ষীয়ান জননেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ মুনসুর আহমেদের শারীরিক সুস্থতা কামনা করে গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বিশেষ দোয়া অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) বিকাল ৪টায় গান‌ই বাড়ি হাই স্কুল মাঠ প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত হয়।

 দোয়া মিলাদের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সংগ্রামী সাংগঠনিক সম্পাদক জি, এম শফিউল আযম লেনিন। সভাপত্বি করেন, শেখ আব্দুল বারী সভাপতি গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, দোয়া অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন গাইনবাড়ী জামে মসজিদের খতিব হযরত মাওলানা আবু হানিফা মোহাম্মদ ত্বোহা, ও গাইনবাড়ী হাফিজিয়া মাদ্রাসার মোয়াল্লেম আলহাজ্ব হাফেজ আবু বাক্কার সিদ্দিক।
উপস্থিত ছিলেন, শেখ মহাসিন আলম সাধারণ সম্পাদক গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, জি এম বাদশাহ আলম যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক শ্যামনগর উপজেলা আওয়ামী লীগ জি এম ইমাম হোসেন যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ। গাজী আব্দুল মান্নান, বিশিষ্ট সমাজ সেবক, জি এম আব্দুল মান্নান খোকা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ,  জি এম আবিয়ার রহমান ইউ'পি সদস্য ৭নং ওয়ার্ড গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, এস এম আতাউর রহমান আহবায়ক গাবুরা ইউনিয়ন আওয়ামী যুবলীগ, সহ বিভিন্ন সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

শৈলকুপায় কাউন্সলির প্রার্থীর ভাই খুন, ৫ ঘণ্টা পর প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থীর মৃতদহে কুমার নদী থকেে উদ্ধার: নির্বাচন বন্ধ ঘোষনা

শৈলকুপায় কাউন্সলির প্রার্থীর  ভাই খুন, ৫ ঘণ্টা পর প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থীর মৃতদহে কুমার নদী থকেে উদ্ধার: নির্বাচন বন্ধ ঘোষনা

সম্রাট হোসনে  শৈলকুপা , (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধিঃ নির্বচনী সহিংসতায় ঝিনাইদহের  শৈলকুপা পৌরসভার ৮ নং ওর্য়াডরে কাউন্সলির প্রার্থীর ছোট ভাই লিয়াকত হোসনে বল্টু কে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষরা। লিয়াকত হোসনে বল্টু বর্তমান  ও কাউন্সলির প্রার্থী  শওকত আলীর ছোট ভাই এবং উমদেপুর ইউনিয়নের ষষ্ঠিবর গ্রামরে মৃত মসলমে উদ্দনি এর ছেলে। তিনি উমদেপুর ইউনয়িন আওয়ামীলীগের  ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকরে দায়ত্বি পালন করছিলেন। 

এদিকে লিয়াকত হোসনে বল্টু  হত্যাকান্ডরে ৫ ঘণ্টা পর কুমার নদ থেকে প্রতিপক্ষ কাউন্সলির প্রার্থী  আলমগীর হোসনে খান বাবুর মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার রাত ১টার দকিে উপজলোর দেবতলা-বারইপাড়া এলাকার কুমার নদ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত আলমগীর হোসনে খান পৌর এলাকার কবরিপুর গ্রামের জালাল খানের ছেলে। নিহতরে স্বজনেরা আমাদের জানা, যখন বল্টুর মৃত্যুর খবর আসে তখন ও বাবু বাড়তিইে ছিলো। তবে হঠাৎ করে তাকে খুজে পাওয়া যাচ্ছলিো না। এর পর রাত ১২.৩০ মনিটিরে দিকে বিভিন্ন ব্যাক্তি আমাদের মোবাইলে কল দিয়ে আমাদের কে বলনে যে কুমার নদীতে বাবুর লাশ পাওয়া গেছে।তবে বাবুর স্বজনরা বলছেে তার ভাই সাতার কাটতে পারতো, আর নদীতে পানিও খুব কম। সুতারং তার পানিতে ডুবে মারা যাওয়ার কোন সম্ভাবনা নেই। তারা অভিযোগ করেছেন তার ভাইকে হয়তো হত্যা করা হতে পারে।তবে মামলা করা হবে কি না জানতে চাইলে তারা বলনে রাতে লাশ দাফন করার পর সবাই বসে সদ্ধিান্ত নেওয়া হবে। 



পুলিশ জানায়, ভাইয়ের নির্বাচনী  প্রচারণা শেষে বাড়ী ফেরার পথে বুধবার রাতে কবিরপুর মাধ্যমকি বিদ্যালয়ের  গলিতে পৌছালে লিয়াকত হোসনে বল্টুর উপর অর্তকতি হামলা চালিয়ে গুরুত্বর আহত করে প্রতপিক্ষ কাউন্সলির প্রার্থীর সর্মথকরা। এসময় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া মেডিকেল কলজে হাসপাতালে নিয়ে গেলে র্কত্বব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করনে। অপর দিকে হত্যাকান্ডরে ৫ ঘন্টাপর রাত ১টার দিকে  কুমার নদী থকেে প্রতিদ্বন্ধী কাউন্সিলর র্প্রাথীর মৃত দেহ উদ্ধার করা হয়। প্রাথমকিভাবে পানতিে ডুবে মৃত্যুর ঘটনা মনে করলওে, পুলশি এর পিছনে নেপথ্যের কারণ অনুসন্ধানে মাঠে নেমেছে।এবং ময়নাতদন্তরে রিপোট আসলে মৃত্যুর আসল কারণ জানা যাবে।


এদকিে কাউন্সলির প্রার্থীর  লাশ উদ্ধার ও প্রতিদ্বদ্ধী কাউন্সলির প্রার্থী শওকত আলীর ভাই আওয়ামীলীগ নেতা লিয়াকত হোসনে বল্টু হত্যাকান্ডরে ঘটনায় উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে পৌর এলাকা। পরিস্থিতি স্বাভাবকি রাখতে  এলাকায় অতরিক্তি পুলশি মোতায়নে করা হয়েছে।


উপজলো নির্বাচনী ও সহকারী রির্টানিং র্কমর্কতা জুয়লে আহম্মদে জানান, নির্বাচনী সহিংসতা এড়াতে আইন শৃংখলা বাহিনী মাঠে রয়েছে। ৮ নং ওর্য়াডে কাউন্সলির র্প্রাথীর ভাই হত্যাকান্ড ও কাউন্সলির র্প্রাথীর মৃতদেহ পাওয়ায় ওই ওর্য়াডরে সাধারণ আসনরে কাউন্সলির পদের  নির্বাচন  বাতলি ঘোষণা করা হয়েছে।


শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত র্কমর্কতা জাহাঙ্গীর হোসেন আমাদেরকে জানান এইদুইটা ঘটনার জন্য কোন মামলা এখনও করা হয়নি কোন আসামি গ্রেপ্তার হয়নি।

নাগরপুরে হাজী কল্যাণ মজলিশের উদ্যোগে বার্ষিক ওয়াজ মাহফিল অনুষ্ঠিত

নাগরপুরে হাজী কল্যাণ মজলিশের উদ্যোগে বার্ষিক ওয়াজ মাহফিল অনুষ্ঠিত

ডা.এম.এ.মান্নান, টাংগাইল জেলা প্রতিনিধি:নাগরপুরে হাজী কল্যাণ মজলিশ,নাগরপুর উপজেলা শাখার উদ্যোগে পাঁচ(৫)তম বার্ষিক ওয়াজ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

আজ বৃহস্পতিবার, ১৪জানুয়ারি ২০২১ খ্রি.নাগরপুর বাজার জামে মসজিদ সংলগ্নে বাদ আসর হইতে নাগরপুরের বিশিষ্ট আলেম ও নাগরপুর হাজী কল্যান মজলিশ এর সভাপতি আলহাজ্ব হযরত মাও.মো.আলী আকবার দা.বা সাহেবের সভাপতিত্বে ও নাগরপুর বাজার জামে মসজিদের পেশ ইমাম আলহাজ্ব হযরত মাও.মো.রফিকুল ইসলাম আমিনী দা.বা সাহেবের পরিচালনায় ওয়াজ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 ওয়াজ মাহফিলে প্রধান বক্তা হিসাবে ওয়াজ ফরমাইছেন বিশিষ্ট ইসলামী চিন্তাবিদ হাফেজ হয়রত মাও.মো.হেদায়েত উল্লাহ নোমানী (দা.বা)সাহেব,অধ্যক্ষ, আজিজিয়া মাদ্রাসা,সাভার,ঢাকা।

 ওয়াজ মাহফিলে উপস্হিতি ছিলেন নাগরপুর উপজেলা হাজী কল্যাণ পরিষদের সকল পর্যায়ের নেত্ববৃন্দ  সহ নাগরপুরের ধর্মপ্রান তৌহিদী জনতা।

জবিতে গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের ‘টেকনিক্যাল সাব-কমিটি’র ১ম সভা অনুষ্ঠিত

জবিতে গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের ‘টেকনিক্যাল সাব-কমিটি’র ১ম সভা অনুষ্ঠিত

মেহেরাবুল ইসলাম সৌদিপ, জবি প্রতিনিধি:
২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক ১ম বর্ষে শিক্ষার্থীদের ভর্তির জন্য সাধারণ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি (GST– General, Science & Technology) গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের 'টেকনিক্যাল সাব-কমিটি'র ১ম সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি-২০২১, সকাল: ১১টায়) জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) উপাচার্য মহোদয়ের সভা কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটির (গাজীপুর)-এর উপাচার্য ও টেকনিক্যাল সাব-কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মুনাজ আহমেদ নূর এতে সভাপতিত্ব করেন।

সভায় টেকনিক্যাল কমিটির তত্ত্বাবধানে আরো ৩টি উপ-কমিটি গঠন করা হয়। উপ-কমিটিসমূহ হলো:- 'Load Balancing, Server Configuration and Database Management', 'Server Security' এবং 'User Experience (UX), User Interface (UI) and Application Development'।

এছাড়াও সভায় GST-বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছভুক্ত ভর্তি পরীক্ষার জন্য www.gstadmission.org ও www.gstadmission.ac.bd এই দুইটি ডোমেইন ক্রয় করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। গুচ্ছভুক্ত ভর্তি পরীক্ষার জন্য 'Cloud Server' ব্যবহার এবং Database হিসেবে 'MySQL' ব্যবহার করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

এছাড়াও ২০১৬, ২০১৭ ও ২০১৮ সালের ঝঝঈ এবং ২০১৯, ২০২০ সালের HSC পরীক্ষার ডাটা টেলিটক বাংলাদেশ লিমিটেড হতে সংগ্রহ করা হবে। GST-বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছভুক্ত ভর্তি পরীক্ষার পেমেন্ট শিক্ষার্থীরা bKash, Rokect, SureCash, Nagad এর মাধ্যমে করতে পারবেন। English Medium এবং Open University থেকে পাস করা শিক্ষার্থীরা যথাযথ ইকুইভ্যালেন্ট সাপেক্ষে এঝঞ-গুচ্ছভুক্ত সম্মিলিত ভর্তি পরীক্ষায় ম্যানুয়ালি আবেদনের মাধ্যমে অংশগ্রহণ করতে পারবেন। সভায় GST গুচ্ছভুক্ত ২০টি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট শিক্ষক ও আইটি বিশেষজ্ঞগণ অংশগ্রহণ করেন।

GST গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলো হলো: ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (কুষ্টিয়া), শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (সিলেট), খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় (খুলনা), হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (দিনাজপুর), মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (টাঙ্গাইল), নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোয়াখালী), কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় (কুমিল্লা), জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় (ময়মনসিংহ), যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যশোর), বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (রংপুর), পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (পাবনা), বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (গোপালগঞ্জ), বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় (বরিশাল), রাঙ্গামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (রাঙ্গামাটি), রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ (সিরাজগঞ্জ), বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি (গাজীপুর), শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয় (নেত্রকোনা), বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (জামালপুর), পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (পটুয়াখালী) এবং জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়।

উল্লেখ্য, সভায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান, ট্রেজারার অধ্যাপক ড. কামালউদ্দীন আহমদ, শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয় (নেত্রকোনা)-এর ট্রেজারার ও টেকনিক্যাল সাব-কমিটির সদস্য অধ্যাপক ড. সুব্রত কুমার আদিত্য প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ ওহিদুজ্জামান, অর্থ ও হিসাব দপ্তরের পরিচালক ড. কাজী মোঃ নাসির উদ্দীন, আইসিটি সেল-এর কম্পিউটার প্রোগ্রামার ও টেকনিক্যাল সাব-কমিটির সদস্য-সচিব মোঃ হাফিজুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

পটিয়ায় অভিযানে ৪ হাজার পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার-৩

পটিয়ায় অভিযানে ৪ হাজার পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার-৩

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ-মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর,  চট্রগ্রাম খ সার্কেল (পটিয়া) কর্তৃক আজ (১৪/০১/২০২১) তারিখ ৪০০০ (চার হাজার) পিচ ইয়াবাট্যাবলেটসহ ৩ জন গ্রেফতার।জেলা  কার্যালয় চট্টগ্রাম  এর সুযোগ্য উপ পরিচালক জনাব হুমায়ুন কবির খন্দকার এর সার্বিক নির্দেশনায় পরিদর্শক মোহাম্মদ সাইফুল ইসলামের নের্তৃত্বে চন্দনাইশ থানাধীন রওশন হাট এলাকায় আজ ১৪/০১/২০২১ তারিখঃ ১৭.০০- থেকে ১৯.০০ ঘটিকায় অভিযান চালিয়ে আসামি  ১। মনতাজ মিয়া(২৭) রোহিঙ্গা কে ২০০০ পিচ ইয়াবাট্যাবলেট এবং তাহার আপন ভাই ২। দিলদার মিয়া (২০) রোহিঙ্গা কে ৮০০ পিচ ইয়াবাট্যাবলেট সহ গ্রেফতার করা হয়,  উভয় পিতা মৃত. নুর আলম,  মাতা- সোরা খাতুন,  সাং বালুখালি রোহিঙ্গা ক্যাম্প ০৯, থানা- উখিয়া, জেলা- কক্সবাজার। অপর একটি অভিযানে আসামি কাজী শফিকুল হাসান ( ২২) পিতা- কাজি জাকির হোসেন, সাং- ডুমুর তলা, থানা - নড়াইল সদর, জেলা - নড়াইল কে ১২০০ পিচ ইয়াবাট্যাবলেটসহ গ্রেফতার করে তাহাদের বিরুদ্ধে চন্দনাইশ থানায় পৃথক দু'টি নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়।

পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ৮ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর মন্নানের মনোনয়ন দাখিল

পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ৮ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর  মন্নানের মনোনয়ন দাখিল

পটিয়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ- চট্টগ্রামের পটিয়া পৌরসভা নির্বাচন  আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী অনুষ্ঠিত হচ্ছে  নির্বাচনে ৮ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এম এ মন্নানের মনোনয়ন   পএ গতকাল দুপুর উপজেলা নির্বাচনী কর্মকর্তা আরাফাত আল হোসাইনীর কাছে  দাখিল করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন আবদুর রহমান মাষ্টার, আছাব উদ্দিন, মোঃ লোক মান, আবদুল আলিম সওদাগর প্রমুখ। কাউন্সিলর এম এ মন্নান বলেন, জনগণের ভালোবাসায় ৮ নং ওয়ার্ডে ব্যাপক উন্নয়ন কাজ হয়েছে। উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন। আবদুল মন্নান বলেন, পটিয়া পৌরসভার মধ্যে ৮ নং ওয়ার্ডে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। ষড়যন্ত্রকারীরা মিথ্যাচার করতে পারে জনগণ'কে সচেতন থাকতে হবে। তিনি আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ৮ নং ওয়ার্ডে মানুষের সাধারণ সেবা নিশ্চিত করতে পুর্নরায় তাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করার আহবান জানান। 

মোংলার উন্নয়নের স্বার্থে দলমত নির্বিশেষে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে

মোংলার উন্নয়নের স্বার্থে দলমত নির্বিশেষে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে

মোঃএরশাদ হোসেন রনি, মোংলাঃ
মোংলা পোর্ট পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে উন্নয়নের স্বার্থে দলমত নির্বিশেষে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে। নৌকা বিজয়ী হলে মোংলার কাঙ্খিত উন্নয়ন সম্ভব হবে। নৌকা প্রতীকের মেয়র প্রার্থী শেখ আব্দুর রহমান একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর বছরে একজন বীর মুক্তিযোদ্ধাকে মেয়র পদে বিজয়ী করে মোংলা বাসী বাংলাদেশের ইতিহাসের অনন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। ১৪ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার বিকেলে উপজেলা যুবলীগ আয়োজিত মোংলার  টাইগার হোটেল মিলনায়তনে মোংলা পোর্ট পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র প্রাথর্ী শেখ আব্দুর রহমানের নৌকা প্রতীকের কর্মী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় বাগেরহাট জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হেমায়েত উদ্দিন ভূঁইয়া একথা বলেন।

বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৩টায় অনুষ্ঠিত কর্মী সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ ইকবাল হোসেন। আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন বাগেরহাট জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি সাবেক রামপাল উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যাপক মোল্লা আব্দুর রউফ, জেলা আওয়ামীলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আহাদ উদ্দিন হায়দার, বাগেরহাট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক নাসির উদ্দিন সরদার, বাগেরহাট চেম্বার অব কমার্স এর সভাপতি মোঃ লিয়াকত হোসেন, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান সোহেল, রামপাল উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান যুবলীগ নেতা নুরুল হক লিপন ও কেন্দ্রিয় ছাত্রলীগের উপদপ্তর সম্পাদক মোঃ ইমরান হোসেন। এছাড়া কর্মী সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন যুবলীগ নেতা মোঃ নূর আলম, সবুজ হাওলাদার, নিরব হোসেন লিটন, রামপাল উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ হাফিজুর রহমান প্রমূখ। আলোচনা সভার আগে নেতৃবৃন্দ মোংলা পোর্ট পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডে নৌকা প্রতীকের পক্ষে গণসংযোগ এবং লিফলেট বিতরণ করেন।

রাজাপুরে সেনাবাহিনীর উদ্যোগে শতাধিক রোগীকে চিকিৎসা সেবা ও বিনামূল্যে ওষুধ বিতরণ

রাজাপুরে সেনাবাহিনীর উদ্যোগে শতাধিক রোগীকে চিকিৎসা সেবা ও বিনামূল্যে ওষুধ বিতরণ

মোঃ নাঈম হাসান ঈমন স্টাফ রিপোর্টারঃ ঝালকাঠির রাজাপুর সরকারি কলেজে বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) দিনব্যাপি সেনাবাহিনীর উদ্যোগে অসহায় ও দুস্থ্য রোগীদের চিকিৎসা সেবা ও বিনামূল্যে ওষুধ বিতরণ করা হয়েছে। সেনাবাহিনীর ৭ পদাতিক ডিভিশনের সৌজন্যে শেখ হাসিনা সেনানিবাসের ২২ ইঞ্জিনিয়ার ব্যাটালিয়নের ব্যবস্থাপনায় সামরিক হাসপাতাল (সিএমএইচ) বরিশাল কর্তৃপক্ষ এ কর্মসূচি পরিচালিত হয়। শেখ হাসিনা সেনা নিবাসের ২২ ইঞ্জিনিয়ার ব্যাটালিয়নের মেজর ইসতিয়াক ক্যাপ্টেন ফারজানার নেতৃত্বে গরীব রোগীদের সেবা প্রধান করেন বরিশাল সিএমএইচ এর চিকিৎসক মেজর হোসাইন মো. ইমরান এবং মেজর মো. মঞ্জুরুল ইসলাম। চিকিৎসা ক্যাম্পেইনে শতাধিক রোগীকে চিকিৎসা সেবা ও বিনামূল্যে ওষুধ প্রদান করা হয়। সেনাবাহিনীর এ ধরনের স্বাস্থ্য ক্যাম্পেইন অব্যাহত থাকবে বলে জানান আয়োজকরা।

পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ২ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর রুপক সেনের মনোনয়ন দাখিল

পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ২ নং ওয়ার্ডে  কাউন্সিলর  রুপক সেনের মনোনয়ন দাখিল

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ-আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী অনুষ্ঠিত পটিয়া পৌরসভা  নির্বাচনে 
সুচক্রদন্ডী ২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ইন্জিনিয়ার রুপক সেন মনোনয়ন   পএ ১৪ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার  বিকেল ৩টায়  উপজেলা নির্বাচনী কর্মকর্তা আরাফাত আল হোসাইনীর কাছে  দাখিল করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন পটিয়া পৌরসভার আওয়ামীলীগের উপ- প্রচার সম্পাদক মোঃ নাজিম উদ্দীন, পটিয়া পৌরসভা জাতীয় শ্রমিকলীগ সভাপতি শফিকুল ইসলাম শফি,পৌর  আওয়ামীলীগ সদস্য জুলহাজুর রহমান লিংকন, আওয়ামীলীগ নেতা মঞ্জুর আলম প্রমুখ। মনোনয়ন ফরম দাখিল শেষে পটিয়া পৌরসভার  সুচক্রদন্ডী ২ নং ওয়ার্ডের ৫ বারের নির্বাচিত কাউন্সিলর ইন্জিনিয়ার রুপক সেন, বলেন  আমার নির্বাচনী এলাকার জনগণ আমাকে ভালোবেসে বার বার ভোট দিয়ে নির্বাচিত কাউন্সিল নির্বাচিত করেছে। আমি তাদের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারী পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে ২ নং ওয়ার্ডে জনগণ পুর্নরায় ভোট দিয়ে অএ এলাকার উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখার জন্য তিনি সকলের দোয়া ও আশীর্বাদ  সহযোগিতা  কামনা করেন।

আশাশুনির কামালকাটীতে বিকল্প ব্রিজের উদ্বোধন

আশাশুনির কামালকাটীতে বিকল্প ব্রিজের উদ্বোধন

আহসান উল্লাহ বাবলু, আশাশুনি সাতক্ষীরা  প্রতিনিধিঃ    আশাশুনির কামালকাটি,শালখালি বাজার সংলগ্ন বাশদহ নদীতে বিকল্প কাঠের ব্রিজের উদ্বোধন করা হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় সর্বসাধারণের চলাচলের জন্য এ ব্রিজের শুভ উদ্বোধন করেন আশাশুনি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মোস্তাকিম। কামালকাটি শালখালি বাজার সংলগ্ন বাশদহ নদীর উপর ব্রিজটি বিগত কয়েক মাস পূর্বে ভেঙে যাওয়ায় শোভনালী ইউনিয়নের বদরতলা সহ পার্শ্ববর্তী এলাকা এবং দেবহাটা উপজেলার  সাথে আশাশুনি উপজেলার সরাসরি যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন ছিল। এ সময় সাধারণ মানুষকে নানারকম দুর্ভোগ পোহাতে হতো। সাধারণ মানুষের কথা ভেবে আশাশুনি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মোস্তাকিম এর সার্বিক সহযোগিতায় এবং শোভনালী ইউপি চেয়ারম্যান প্রভাষক মোনায়েম হোসেনের তত্ত্বাবধানে বিকল্প কাঠের ব্রিজের ব্যবস্থা করা হয়। এই বিকল্প কাঠের ব্রিজ নির্মাণের ফলে মানুষ ও যানবাহন চলাচলে আর কোন বাধা রইলো না। বিকল্প ব্রিজটি নির্মিত হওয়ায় এ অঞ্চলের সাধারণ মানুষ উপজেলা চেয়ারম্যান এবিএম মোস্তাকিম ও শোভনালী ইউপি চেয়ারম্যান প্রভাষক মোনায়েম হোসেন কে অভিনন্দন জানান। এসময় উপস্থিত ছিলেন ওসি (তদন্ত) মাহফুজুর রহমান, শোভনালী ইউপি চেয়ারম্যান প্রভাষক মোনায়েম হোসেন,উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সামাদ বাচ্চু,শোভনালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সঞ্জয় কুমার দাস,ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম গাইন,উদয় কান্তি বাছাড়,আলমগীর হোসেন, ফারুক হোসেনসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

কালিয়ার পল্লীতে এক গৃহবধুকে ধর্ষনের চেষ্টা, থানায় মামলা

কালিয়ার পল্লীতে এক গৃহবধুকে ধর্ষনের চেষ্টা, থানায় মামলা

মো: আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টার নড়াইলঃ নড়াইলের কালিয়া উপজেলার বাগুডাঙ্গা গ্রামে এক গৃহবধুকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ঐ গৃহবধু বাদি হয়ে একই গ্রামের অভিযুক্ত আামিনুর কাজীর (৩০) বিরুদ্ধে নড়াগাতি থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ সংশোধনী ২০০৩ এর ১০ ধারায় গতকাল (১৪ জানুয়ারি) বৃহস্পতিবার মামলা দায়ের করেছে। আমিনুর বাগুডাঙ্গা গ্রামের মৃত রত্তন কাজীর ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, গত বুধবার রাতে ঐ গৃহবধু বাড়িতে ঘুমিয়ে ছিল। এ সময় অভিযুক্ত আমিনুর কাজী পাশে গাছ কেনার অজুহাতে তাদের বাড়িতে আসে এবং ঐ গৃহবধুকে একা পেয়ে তার শৃলতাহানি করে এবং তার পরনে থানা ওড়না দিয়ে হাত পা বেধে তাকে ধর্ষনের চেষ্টা চালায়। জোর জবরদস্তির এক পর্যায়ে তার চিৎকারে লোকজন এগিয়ে আসলে অভিযুক্ত পালিয়ে জায়। এ ঘটনায় অভিযুক্ত আমিনুর কাজি পলাতক রয়েছে।

নড়াগাতি থানার অফিসার ইনচার্জ রোকসানা খাতুন বলেন, গৃহবধুর অভিযোগের ভিত্তিতে মামলা দায়ের হয়েছে, এবং অভিযুক্তকে আসামিকে আটকের চেষ্টা চলছে।

সাতক্ষীরায় নির্ধারিত পণ্যে পাটজাত মোড়ক ব্যবহার না করায় জরিমানা

সাতক্ষীরায় নির্ধারিত পণ্যে পাটজাত মোড়ক ব্যবহার না করায় জরিমানা

আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টারঃ সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক ও বিজ্ঞ ম্যাজিস্ট্রেট এস এম  মোস্তফা কামাল এঁর নির্দেশে, সাতক্ষীরা সদরের তাপস এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিতে মোবাইল কোর্টের অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) নির্ধারিত পণ্যের পাটজাত মোড়কের ব্যবহার না করায় "পণ্যে পাটজাত মোড়কের বাধ্যতামূলক ব্যবহার আইন, ২০১০" অনুযায়ী তাপস এগ্রো ইন্ডাস্ট্রি এর ম্যানেজারকে ৮হাজার টাকা  অর্থ দন্ড প্রদান করা হয় এবং ভবিষ্যতে চাউলসহ নির্ধারিত পণ্যে বাধ্যতামূলকভাবে পাটের বস্তা বা মোড়ক ব্যাবহারের জন্য সতর্ক করা হয়। 

জনস্বার্থে এই ধরনের অভিযান পরিচালনা অব্যাহত থাকবে বলে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়।

সিরাজগঞ্জে বাগবাটিতে জোরপূর্বক জমি দখল ও গাছ কর্তনের অভিযোগ

সিরাজগঞ্জে বাগবাটিতে জোরপূর্বক জমি দখল ও গাছ কর্তনের অভিযোগ

সিরাজগঞ্জ জেলাপ্রতিনিধিঃ
সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার বাগবাটি ইউনিয়নের ফুলকোচা গ্রামে জোড় পূর্বক জমি দখল ও গাছ কর্তনের অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগ করেন ফুলকোচা গ্রামের মোঃ শহিদুল ইসলাম এর স্ত্রী মোছাঃ লিপি বেগম (৩৬) তিনি যানান, ১৩ই জানুয়ারী বুধবার সকাল ৮টায় ফুলকোচা গ্রামের বালিঘুগরি মৌজার আরএস খতিয়ান-৩০৬, ৫৫৩, যাহার আর এস দাগ নং- ২০০০, ২০০১, ২০০২ মোট ৪৪ শতক জমি বে-দখল দেওয়ার চেষ্টা করছে একুই গ্রামের মৃত: দেলবার সেখ এর ছেলে মোঃ জাহাঙ্গীর আলম (৪৫), সুলতান (৪০), জাহিদুল ইসলাম(৩৭) তিনি আরও বলেন এটা আমার বাবার পৈত্রিক ও ক্রয়কৃত সম্পত্তি, আমার বাবা মারা যাবার সময় আমার একটি ভাই রেখে যান সেই জমি জমা দেখা শোনা করত। কিন্তু গত তিন মাস আগে আমার ভাই এর অকাল মৃত্যু হয় তাই জাহাঙ্গীর গং আমাদের সম্পত্তি দখল করার জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে বলে তিনি জানান। তিনি আরও জানান এলাকার চেয়ারম্যান, মেম্বার সহ গ্রামের মাতব্বরগণ জমির কাগজপত্র দেখে একটি শালীশি বৈঠক করে সার্বেয়ার দ্বারা জমি জমা ভাগ বাটোয়ারা করে দেন। জাহাঙ্গীর গং শালীশি বৈঠক মেনে নিয়ে আবার জোড় পূর্বক বে-আইনী জনতাবদ্ধে উক্ত জমিতে অনাধিকারে প্রবেশ করিয়া গাছের বাগান কেটে ফেলে গত ১৩ই জানুয়ারী বুধবার সকাল ৮টায় ১২ টি মেহুগনি ও ১৮ টি লম্বু গাছ কেটে নিয়ে যায় যাহার আনুমানিক মূল্য ১,০০,০০০/- (এক লক্ষ) টাকা। মাতব্বরদের পায়ে পায়ে ঘুরে কোন সূরহা না পেয়ে থানায় অভিযোগ করেন বলে তিনি জানান। এই বিষয়ের একুই গ্রামের মাতব্বর ও ইউপি সদস্য আব্দুল কাদের বলেন, বিষয়গুলো আমি জানি তবে কিছুদিন আগে যে শালিশী বৈঠক হয়েছে ওই বৈঠকে আমি ছিলাম না চেয়ারম্যান সহ গ্রামের মাতব্বরগণ মিমাংস করেছে শুনেছি। কিন্তু গাছ কাটার বিষয়টা যে ঘটেছে এটা খুবই দুঃখজনক। ওই শালীশি বৈঠকে যারা ছিলেন, মোঃ জাহাঙ্গীর আলম তালুকদার, আজগর আলী, লুৎফর রহমানসহ আর অনেকেই বলেন আমরা সারাটা দিন বৈঠক করে চুলছেড়া বিশ্লেষণ করে জমি জমা ভাগ করে দিয়ে আসছি। কিন্তু জাহাঙ্গীর গং যে ঘটনা ঘটিয়েছে এটা খুবই দুঃখ জনক ও অমানবিক। এ বিষয়ে সিরাজগঞ্জ সদর থানার এ.এস.আই আরমান বলেন, আমি ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম ঘটনাটি সত্য তবে, স্থানীয় ভাবে চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম দায়িত্ব নিয়েছে মিমাংসা করে দিবেন। যদি মিমাংস না হয় আমরা আইনি ব্যবস্থা নিব।

মানব কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর উদ্দ্যোগে শীতবস্ত্র বিতারণ

মানব কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর উদ্দ্যোগে শীতবস্ত্র বিতারণ

মোঃ রাশেদুল ইসলাম রাশেদ: বাংলাদেশের সিমান্তবর্তী জেলা লালমনিরহাট। সেই জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার মদাতি ইউনিয়নে মৌজাশাখাতী নামক গ্রামে সেচ্ছাসেবী সংগঠন "মানব কল্যাণ ফাউন্ডেশন"প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।বর্তমান সমাজে যুব সমাজ যখন মাদকের প্রতি আসক্ত,সেই সময় মৌজাশাখাতী(মঙ্গলেরডাঙ্গা)এর যুবকেরা একতা বদ্ধ হয়ে মাদক কে "না" বলে জনগনের কল্যানে কাজ করে যাচ্ছে।সমাজের অসহায় মানুষের মাঝে তারা শীতবস্ত্র বিতরণ করেন।

উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মদাতি ইউনিয়ন পরিষদের সম্মানিত চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আব্দুল কাদের।বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন,মো:আফতাবুজ্জামান দুলাল,ইউপি সদস্য ২নং মদাতি ইউনিয়ন।

মো:মাহবুবুর রহমান,প্রভাষক, লালমনিরহাট বি.এম কলেজ।মো:উমর ফারুক,প্রভাষক, দইখাওয়া আদর্শ কলেজ।মো:তৌহিদুল ইসলাম বাবু,ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক,শাখাতী উচ্চ বিদ্যালয়।

মোঃআবুল বাশার লাভলু,প্রধান শিক্ষক,
মৌজাশাখাতী সরকারি  প্রাথমিক বিদ্যালয়।মো:আব্দুল হামিদ,প্রধান শিক্ষক,মিস্ত্রীপাড়া ইবতেদায়ী মাদ্রাসা।মো:আব্দুল মজিদ,সহকারী শিক্ষক, খানাটারী সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়।মো:মেহেদী হাসান,পল্লি সঞ্চয় ব্যাংক,
হাতিবান্ধা শাখা।

আরও উপস্থিত ছিলেন অন্যান্য অতিথিবৃন্দ।
উক্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন,

হাফেজ মাওলানা মো: ইয়ারউদ্দীন সাহেব,
সভাপতি,মানব কল্যাণ ফাউন্ডেশন।
সংগঠনটি কিছুদিনের মধ্যে বিভিন্ন উন্নায়নমূলক কাজ করে এলাকায় তথা পুরা কালীগঞ্জ উপজেলায় তাদের নাম ছড়িয়ে গেছে।

ইতালীর রাষ্ট্রদূত এর সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন পিরোজপুর জেলা সমিতির সাধারণ সম্পাদক

ইতালীর রাষ্ট্রদূত এর সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন পিরোজপুর জেলা সমিতির সাধারণ সম্পাদক

মিঠুন কুমার রাজ স্টাফ রিপোর্টার:
পিরোজপুরের কৃর্তিসন্তান,মেধাবী  সফল কুটনৈতিক ব্যক্তিত্ব মান্যবর রাষ্ট্রদূত (ইতালী)জনাব শামীম আহসান এর সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন পিরোজপুর জেলা সমিতির সাধারণ সম্পাদক সুমন মুজিবুর। সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর কাজী। সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ লিটন, কমিউনিটি ব্যাক্তিত্ব মানিক নিতাই সহ আরো অনেকে।

দীর্ঘ আলাপচারিতায় কুশল বিনিময়ের পাশাপাশি ইতালি প্রবাসীদের সকল সমস্যা  দ্রুত নিরসনের আশা ব্যক্ত করেন। ইতিমধ্যেই তার অনেক কার্যকরী পদক্ষেপের মাধ্যমে বাঙ্গালী  কমিউনিটির মধ্যে ব্যাপক প্রশংসা ও সুনাম কুড়িয়েছেন তিনি। 

এদিকে ডুবাই প্রবাসী মতিউর রহমান শাহীন ও অভিনন্দন জানিয়েছেন ইতালী রাষ্ট্রদূত জনাব শামীম আহসানকে। তিনি বলেন শামীম আহসান আমাদের পিরোজপুর জেলা গর্ব। তার সুস্থতা ও দীর্ঘায়ু কামনা করছি।

নড়াইলে গ্রাম্য কোন্দল নিয়ে পঞ্চাশটির অধিক পরিবার গ্রাম ছাড়া

নড়াইলে গ্রাম্য কোন্দল নিয়ে  পঞ্চাশটির অধিক পরিবার গ্রাম ছাড়া

মো: আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ  রিপোর্টার নড়াইল: নড়াইল জেলার লোহাগড়া উপজেলার কোটাকোল ইউনিয়নের তেলকাড়া গ্রাম্য কোন্দল নিয়ে গ্রামছাড়া ৫০ টির অধিক পরিবার।

ভুক্তভোগীদের সাথে কথা হলে এমনটি অভিযোগ পাওয়া যায়। অভিযোগকারীরা লোহাগড়া উপজেলার তেলকাড়া গ্রামের ভুক্তভোগী ১/মো: টুটুল শেখ, পিং মৃত ফায়েক শেখ,২/রানী বেগম, স্বামী রিজাল মোল্ল্যা,৩/ রিবা বেগম,স্বামী কুটি শেখ,৪/ লিয়াকত শেখ, পিং মৃত বাচ্চু মিয়া,৫/ কুটি মিয়া শেখ,পিং মৃত ফায়েক শেখের পরিবার সহ আরো অনেক পরিবারের লোক অসহায় ভাবে বিভিন্ন এলাকায় ছেলে মেয়ে নিয়ে জীবন যাপন করছে। কিছু বাড়িতে আছে পুরুষ, কিছু বাড়িতে নেই, ফিরে যেতে পারছে না তাদের নিজ গ্রামে একটি সন্ত্রাসী বাহিনীর জন্য। এই সন্ত্রাসী বাহিনীরদের নামে বিভিন্ন মামলা আছে বলে জানায় অভিযোগকারীরা 

সরেজমিনে গিয়ে গ্রাম ছাড়া মো: লিয়াকত শেখ এর সাথে কথা হলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন,তেলকাড়া    গ্রামে দলাদলি নিয়ে বিরোধ ছিল। এটাকে কেন্দ্র করে, কিছু মাদক সেবনকারী,মাদক বিক্রেতা, চাঁদাবাজ,জুলুমবাজ, ডাকাত,দলের একটি চক্র তেলকাড়া গ্রামে আছে।
 এরা হলো ১/মো:নান্টু শিকদার,পিং মৃত আকু শিকদার,২/মো:ইমরুল মল্লিক, পিং মৃত গোলাম রসুল মল্লিক, ৩/মো: জিহাদ শেখ,পিং মৃত মহন শেখ,৪/মো: রিয়াজ শেখ পিং মৃত মুজিবর শেখ,৫/ সোহেল শেখ, পিং বায়েজিত শেখ,৬/ গিয়াস উদ্দিন খাঁ পিং মৃত আমজাদ হোসেন খাঁ,৭/শামিম ওরফে রাঙ্গা, পিং আবি আহমেদ শেখ, ৮/ শামিম মোল্ল্যা, ৯/ নুর আলম মোল্ল্যা,উভয় পিং মৃত ইয়ার আলী মোল্লা,১০/ ওসি মোল্ল্যা পিং নাছির উদ্দিন মোল্ল্যা, সর্বসাং তেলকাড়া, থানা লোহাগড়া:জেলা নড়াইল। এরা একটি সন্ত্রাসী বাহিনীর টিম, এদের অত্যাচারের আমারা  গ্রামে যেতে পারছিনা, এরা বিভিন্ন সময়ে গ্রামে যেতে হলে চাঁদা দাবি করছে, চাঁদার টাকা না দিলে খেতে হচ্ছে মারধোর, এবং মহিলাদের ইজ্জত কেড়ে নেবে বলেও হুমকি ধামকী দিচ্ছে।

লিয়াকত শেখ আরো জানান, এই সন্ত্রাসী গ্রুপের হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য আমরা কিছু পরিবার সম্মিলিত হয়ে মাননীয় সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজা, এবং মাননীয় পুলিশ সুপার নড়াইল কে লিখিতভাবে  অভিযোগ পত্র দিয়েছি, আমাদের আবেদন এমপি মহাদয়,ও পুলিশ সুপার সাহেব এর কাছে আমাদের আকুল প্রার্থনা আমাদের বাড়ি উঠার প্রতি সদয় মর্জি হবেন।

এ সময় একজন মহিলা নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বলেন,উক্ত সন্ত্রাসী বাহিনীরা কিছুদিন আগে রাতের অন্ধকারে আমার ঘরের দরোজা ধাক্কাতে থাকে এবং বলে চাঁদার টাকা দিতে পারলে গ্রামে থাকবি না হয় তোকে ধর্ষণ করে মেরে ফেলা হবে।
এখন আমার ইজ্জত রক্ষা করার জন্য, বাড়িঘর ছেড়ে, ছেলে,মেয়ে, গরু,ছাগল, মালামাল নিয়ে আত্মীয়দের বাড়িতে ঠাই নিয়েছি।
এসময় ওই মহিলা কান্নায় জড়িত হয়ে আরো বলেন, আমরা কি কোনদিন আর বাড়িঘরে যেতে পারবো না,আমরা গরীব মানুষ, কোথায় যাবো, আল্লাহর দুনিয়ায় এমন কেউ কি নেই,আমাদের এই সন্ত্রাসীদের হাত থেকে বাঁচাবে। 

 অভিযোগকারী কুটি শেখ বলেন কিছু দিন আগে ওই সন্ত্রাসী বাহিনীরা  আমার কাছে চাঁদার টাকা দাবি করে, তখন আমি তাদের হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য ৫০,হাজার টাকা চাঁদা দিয়েছি, এখন ওই সন্ত্রাসী বাহিনী আবার আমার কাছে টাকা দাবি করছে, এবং বলে গেছে গ্রামে থাকতে হলে মাসে মাসে চাঁদা দিতে হবে, এখন আমিও বাধ্য হয়ে পরিবার নিয়ে আত্মীয়র বাড়ি থেকে নিয়েছি, কুটি শেখ আরো বলেন, আমরা কোন গ্যাঞ্জাম চাইনা ছেলেমেয়েদের নিয়ে গ্রামে থেকে তাদের মানুষ করতে চাই। 

এ বিষয় নিয়ে অভিযুক্ত কারি অনেকের সাথে যোগাযোগ না করতে পেরে ইমরুল মল্লিক এর সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি ঘটনা অস্বীকার করে বলেন অভিযোগকারীদের সাথে পূর্ব শত্রুতার জেরে এখন তারা আমাদের হয়রানি করছে। 

আওয়ামী সন্ত্রাসীদের আতঙ্কে ধানের শীষ প্রার্থীর শ্রীপুর পৌর নির্বাচনী সমাবেশ স্থগিত

আওয়ামী সন্ত্রাসীদের আতঙ্কে ধানের শীষ প্রার্থীর  শ্রীপুর পৌর নির্বাচনী সমাবেশ স্থগিত

গাজীপুর প্রতিনিধিঃ শ্রীপুর পৌর নির্বাচনের ধানের শীষের প্রার্থীর পূর্বনির্ধারিত নির্বাচনী সভা সন্ত্রাসীদের কারনে বাতিল করা হয়েছে।

১৪ই জানুয়ারি পৌর এলাকার মাওনা শহরে নিবাচন কমিশন অফিস ও মাওনা পুলিশ ফাঁড়ি কর্তৃক  অনুমতিপ্রাপ্ত ধানের শীষ প্রার্থীর সমাবেশ হওয়ার কথা থাকলেও নৌকা প্রার্থীর সন্ত্রাসীদের অতর্কিত মহড়া ও হামলা আতঙ্কে তা বাতিল করতে বাধ্য হয়েছে।

গতকাল ধানের শীষের প্রার্থী বিভিন্ন জায়গায় গনসংযোগ করার সময় নৌকা প্রার্থীর সমর্থক সন্ত্রাসীরা মটরসাইকেল নিয়ে দা, হকিস্টিক, লাঠি নিয়ে মহড়া দেয় এবং জনগনকে ভয়ভিতী পদর্শন করে।  এসকল ধারাবাহিক সন্ত্রাসী কার্যক্রমের ফলে পূর্বনির্ধারিত নির্বাচনী সভা স্থগিত করা হয়েছে।

এসকল বিষয়ে ধানের শীষের মেয়র প্রার্থী এডভোকেট কাজী খান জানান- ধানের শীষের পক্ষে এবং তার বিপুল সমর্থন দেখে নৌকা প্রার্থী ভিত হয়েছে ও বুঝতে পেরেছে নৌকা প্রার্থীর শতকরা ২০% সমর্থনও নাই।  এই হেরে যাওয়ার ভিতীর কারনেই নৌকা প্রার্থী তার সন্ত্রাসী ও ক্যাডার দ্বারা ধানের শীষের বিরুদ্ধে এসব অরাজকতা এবং ষড়যন্ত্র মূলক কাজ চালাচ্ছেন। তিনি আরও বলেন, এমন ন্যাক্কারজনক হামলার কারনে সাধারন মানুষের ভিতরে আতঙ্ক কাজ করছে যার ফলে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব হবে না। তাছাড়াও বারনিরব ভূমিকার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে ধানের শীষ প্রার্থী বলেন আওয়ামী সন্ত্রাসীদের অরাজকতা ও ষড়যন্ত্রের পরেও প্রশাসনের নিরবতা জানান দেয় বার হামলার পরেও প্রশাসনের গনতন্ত্র আজ হারিয়ে গেছে

জবিতে ‘এগারজন’র সভাপতি সৌদিপ, সম্পাদক ফাইয়াজ

জবিতে ‘এগারজন’র সভাপতি সৌদিপ, সম্পাদক ফাইয়াজ

জবি প্রতিনিধি:
''নতুন ভোরের প্রত্যয়ে'' এই স্লোগান নিয়ে জাতীয় দৈনিক খোলা কাগজের পাঠক ফোরাম 'এগারজন' এর জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিতে সভাপতি হিসেবে রয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী মেহেরাবুল ইসলাম সৌদিপ ও সাধারণ সম্পাদক হিসেবে রয়েছেন একই সেশনের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী আহনাফ তাহমিদ।

এগারজন'র সম্পাদক নূরা রুকসানা সুমির নির্দেশনায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের মেধাবী ও পরিশ্রমী শিক্ষার্থীদের নিয়ে এ কমিটি গঠন করা হয়। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস, ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মোস্তফা কামাল, বিশ্ববিদ্যালয় প্রেসক্লাবের সভাপতি জাহিদুল ইসলাম সাদেককে উপদেষ্টা ও খোলা কাগজের জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি মুজাহিদ বিল্লাহকে সমন্বয়ক করে এ কার্যনির্বাহী কমিটি গঠিত হয়েছে।

কমিটিতে সহসভাপতি পদে রয়েছেন মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী মোঃ সুমন। এছাড়াও সহ-সম্পাদক হিসেবে রয়েছেন উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মো: শাহারিয়ার, সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে রয়েছেন আইন বিভাগের শিক্ষার্থী অনন্য প্রতীক রাউত, প্রচার সম্পাদক হিসেবে রয়েছেন বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী মোঃ শিবলী নোমান খান। কমিটিতে কার্যনির্বাহী সদস্য হিসেবে রয়েছেন ফিল্ম এন্ড টেলিভিশনের খায়রুল হাসান আকাশ, বাংলা বিভাগের রিদুয়ান ইসলাম, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের মোছাঃ রুকাইয়া মিজান মিমি, শিক্ষা ও গবেষণা ইন্সটিটিউটের সানজিদা মাহমুদ মিষ্টি ও পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী মোঃ মেহরাব হোসেন অপি।

কমিটির সভাপতি মেহেরাবুল ইসলাম সৌদিপ বলেন, দেশ-বিদেশে দৈনিক খোলা কাগজ পত্রিকা পাঠকদের চাহিদা পূরণ করতে ব্যাপক ভূমিকা রেখে চলছে। এর পাঠক ফোরাম এগারজনও বিভিন্ন সামাজিক কাজে ভূয়সী প্রশংসায় ভূষিত হয়েছেন। এরই ধারাবাহিকতায়  এগারজনের জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার কমিটি গঠন করা হয়েছে। সকলের সহযোগিতায় ভালো কিছু করার চেষ্টা থাকবে সবসময়। এ কমিটির সবাই পড়াশোনার পাশাপাশি সাহিত্য, সাংস্কৃতিক চর্চা ও সামাজিক কর্মকান্ডের অংশীদার হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

সাধারণ সম্পাদক আহনাফ তাহমিদ বলেন, 'এগারজন' প্লাটফর্মটির মাধ্যমে আমরা আমাদের মেধাকে আরও বিকশিত করতে পারব এবং এর পাশাপাশি সামাজিক উন্নয়নমূলক কাজে অংশগ্রহণ করে সমাজের মানুষের সেবা করতে পারবো। এমন একটি প্লাটফর্ম তৈরি করায় দৈনিক খোলা কাগজকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

কমিটির সবাই বিভিন্ন সামাজিক কাজ, বির্তক প্রতিযোগীতা, মুক্ত আলোচনা, সমাজের পিছিয়ে পড়া মানুষের পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। খোলা কাগজ পাঠক ফোরাম এগারজনের জবি শাখার সকল সদস্য বিভাগীয় সম্পাদককে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

শ্রীপুর পৌর নির্বাচনে ধানের শীষ প্রার্থীর বিরুদ্ধে নৌকা প্রার্থীর সহিংসতা ও ষড়যন্ত্র- নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ!

শ্রীপুর পৌর নির্বাচনে ধানের শীষ প্রার্থীর বিরুদ্ধে নৌকা প্রার্থীর সহিংসতা ও ষড়যন্ত্র- নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ!

গাজীপুর প্রতিনিধি: শ্রীপুর পৌর নির্বাচনে ধানের শীষের মেয়র প্রার্থীর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র এবং নির্বাচনকে একমুখী করার লক্ষ্যে নৌকার মেয়র প্রার্থী ও তার সন্ত্রাসীরা অরাজকতার সৃষ্টি করছে।

ধানের শীষ প্রার্থীর সমর্থকদের অভিযোগ নির্বাচনী প্রচারনার শুরুতে বিভিন্ন সভা এবং নির্বাচনী সমাবেশে ধানের শীষ প্রার্থী এডভোকেট কাজী খানের পক্ষে সাধারন মানুষের ব্যাপক সমর্থন দেখা যায় ও সাধারন মানুষ ধানের শীষে ভোট দিতে একজোট হয়। এরপর ধানের শীষের সমর্থকদের প্রচারনায় গনজোয়াড় দেখে আওয়ামী প্রার্থী নানাবিধ ষড়যন্ত্র শুরু করে। ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে নৌকা প্রার্থী এবং তার সমর্থকরা  ধানের শীষের প্রচারনায় বাধা, মারধর, হত্যা হুমকি সহ নানা ধরনের সন্ত্রাসী কার্যক্রম শুরু করে।
তারই ধারাবাহিকতায় ৯ জানুয়ারী সকাল ১২ টার দিকে শ্রীপুর পৌরসভার আইনজিবীরা ধানের শীষের পক্ষে গনসংযোগ চালানোর সময় নৌকা প্রার্থীর সুমন্ধীর নেতৃত্বে কিছু সন্ত্রাসী প্রচারনায় বাধা দেয় এবং মাইক্রোবাস ভাঙচুর, আইজিবীদের মারধর ও হত্যা হুমকি দেয়।
এই ঘটনার ঠিক পরের দিন অর্থাৎঃ ১০ই জানুয়ারি নির্বাচনকে প্রভাবিত করার লক্ষে ধানের শীষের প্রধান নির্বাচনী অফিসে নৌকা প্রার্থীর সমর্থক এবং আওয়ামী সন্ত্রাসী নূরে আলম মোল্লা, শেখ সেলিম, সাইফ সহ শতাধিক নেতাকর্মী দা, হকিস্টিক,লাঠি, চাপাতি,এসিডসহ নানা ধরনের দেশীয় অস্ত্রসহ অফিসে থাকা ধানের শীষের প্রার্থী এবং নেতাকর্মীদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় সন্ত্রাসীরা অফিসে থাকা চেয়ার টেবিল,গ্লাস,এবং নির্বাচনী সামগ্রীর ব্যাপক ভাঙচুর চালায়।

প্রথম দফা হামলার পরপরই দুপুরে আরও দু'দফা হামলায় ধারালো দায়ের কোপে বিএনপি'র মেয়র প্রার্থী এড. কাজী খান ও পৌর বিএনপির সাবেক সভাপতি আবুল মন্ডল, পৌর ছাত্র দলের সাবেক সভাপতি ওবায়দুর রহমান সোহেল মন্ডল, শ্রমিকদল নেতা খোরশেদ আলম, যুবদল নেতা আনোয়ার বেপারী, স্বেচ্ছাসবক দল নেতা রাজিবুল বেপারী,ইঞ্জি; উজ্জল মাহমুদ, ছাত্রদল নেতা আরাফাত বেপারী,আমিনুল ইসলাম, যুবদল নেতা সবুজ প্রধান,শ্রমিকদল নেতা সেলিম, রাহাত হাসান জুয়েলসহ অন্তত ২০ জন নেতাকর্মী গুরুতর আহত হয়। ওই সময় হামলাকারীরা বিএনপি'র নির্বাচনী কার্যালয়ের সামনে থাকা বেশ কয়েকটি মোটর সাইকেল ভাংচুর করে।

এরপর ষড়যন্ত্র করে বিএনপির প্রায় ৪ শত নেতাকর্মীর নামে মিথ্যা মামলা করে।

এরপর ১২ই জানুয়ারী বিএনপি প্রার্থীর নির্বাচনী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিলো এবং সেটি নির্বাচনী অফিস ও পুলিশের দ্বারা অনুমতিপ্রাপ্ত ছিলো। কিন্তু নৌকা প্রার্থী ষড়যন্ত্র করে একই দিনে একই স্থানে সমাবেশ করার উদ্যেগ নেয় এবং ধানের শীষ প্রার্থীর সমাবেশ বন্ধ করে দেয় ও ষড়যন্ত্র শুরু করে।

এসকল অরাজকতার পাশাপাশি নৌকা প্রার্থীর সমর্থকরা ধানের শীষের প্রচারনার মাইক ভাঙ্গচুর, পোষ্টার লাগানোতে বাধা এবং তা ছিড়ে ফেলা, বিভিন্ন জায়গায় প্রচারনা অফিসে হামলা, নেতাকর্মীদেরকে মারধর, হত্যা সহ নানা ধরনের ভয়ভিতী পদর্শন করছে।

এসকল বিষয়ে ধানের শীষের মেয়র প্রার্থী এডভোকেট কাজী খান জানান- ধানের শীষের পক্ষে এবং তার বিপুল সমর্থন দেখে নৌকা প্রার্থী ভিত হয়েছে ও বুঝতে পেরেছে নৌকা প্রার্থীর শতকরা ২০% সমর্থনও নাই।  এই হেরে যাওয়ার ভিতীর কারনেই নৌকা প্রার্থী তার সন্ত্রাসী ও ক্যাডার দ্বারা ধানের শীষের বিরুদ্ধে এসব অরাজকতা এবং ষড়যন্ত্র মূলক কাজ চালাচ্ছেন। তিনি আরও বলেন, এমন ন্যাক্কারজনক হামলার কারনে সাধারন মানুষের ভিতরে আতঙ্ক কাজ করছে যার ফলে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব হবে না। তাছাড়াও বার বার হামলার পরেও প্রশাসনের নিরব ভূমিকার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে ধানের শীষ প্রার্থী বলেন আওয়ামী সন্ত্রাসীদের অরাজকতা ও ষড়যন্ত্রের পরেও প্রশাসনের নিরবতা জানান দেয় গনতন্ত্র আজ হারিয়ে গেছে।

দক্ষিণ হালিশহর ওয়ার্ডে নৌকার সমর্থনে আঃলীগ দলীয় কাউন্সিলরদের গণ সংযোগ

দক্ষিণ হালিশহর ওয়ার্ডে নৌকার সমর্থনে আঃলীগ দলীয় কাউন্সিলরদের গণ সংযোগ

হাসান রিফাত, চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ নগরীর ইপিজেড থানাধীন ৩৯নং ওয়ার্ডে আঃ লীগ মনোনীত কাউন্সিলর প্রার্থী হাজী জিয়াউল হক সমুন(লাটিম), মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থী মিসেস শাহানুর বেগম (গ্লাস) প্রতীকে এবং মেয়র পদে রেজাউল করিম কে নৌকার পক্ষে ভোট চেয়ে ওয়ার্ডের এ.ইউনিটি (এমপিভি গেইট)এলাকায় বিকেল ৩টা থেকে গন সংযোগ শুরু করে । 

এসময় মহিলা আঃলীগের সভানেত্রী মিসেস শারমিন সুলতানা, নাছিমা আক্তার,রুমানা আক্তার, নিলুপার ইয়াছমিন সহ দলীয় নেতৃবৃন্দ গনসংযোগ কালে উপস্থিত ছিলেন। ১৩জানুয়ারী বুধবার বিকেলে গনসংযোগ শুরু হয়ে বন্দরটিলাস্থ চসিক কাউন্সিলর কার্যালয় সামনে এসে শেষ হয় বলে দলীয় সুত্রে জানাই।
সকলেই দলীয় প্রার্থীদের ভোট দিয়ে আবারো জনগণের সেবা করার সুযোগ দিতে  অনুরোধ জানান।

পটিয়া পৌর নিবার্চনে সকল জল্পনা কল্পনার অবসানঃ নৌকার মাঝি হলেন আইয়ুব বাবুল

পটিয়া পৌর নিবার্চনে সকল জল্পনা কল্পনার অবসানঃ নৌকার মাঝি হলেন  আইয়ুব বাবুল

সেলিম চৌধুরী স্টাফ রিপোর্টারঃ-আগামী ১৪ই ফেব্র"য়ারী চতুর্থ দফা পৌরসভা নির্বাচন। অবশেষে সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে নৌকার মাঝি হলেন, দুঃসময়ে ত্যাগীনেতা সাবেক চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও পটিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি মো: আইয়ুব বাবুল। এই নিয়ে সামাজিক যোগযোগের গনমাধ্যমে ফেইজবুক ও পটিয়ার পৌর এলাকায় প্রতিটি ওয়ার্ডে চলছে মিষ্টি বিতরণ করছে অনেকই। ১৩ই জানুয়ারী রাত ৮টায় গনভবনে মনোনয়ন বোর্ডে'র মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পটিয়া পৌরসভা নিবার্চনে মো: আইযুব বাবুলকে দলীয় হিসেবে ঘোষনা করেন বলে দলীয় সূত্রে জানাগেছে।
পটিয়া পৌরসভা নিবার্চনে দলীয় মনোনয়ন ৪জন প্রার্থী ছিলেন। তৎমধ্যে পটিয়া পৌর সভার ২ বারের নিবার্চিত বর্তমান মেয়র ও উপজেলা আ'লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক হারুনুর রশিদ, সাবেক দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও উপজেলা আ'লীগের সহ সভাপতি আইয়ুব বাবুল, দক্ষিণ জেলা যুবলীগের সভাপতি আ.ম.ম.টিপু সুলতান চৌধুরী ও পৌরসভা আ'লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক সরওয়ার হায়দার।
সূত্রে জানাযায়, পটিয়া পৌরসভা ৩নং ওয়ার্ড সুচক্রদণ্ডী (মহল্লার বাড়ি/ বদি মাস্টার বাড়ি'র) মরহুম আমিনুর রহমানের পুত্র মো: আইয়ুব বাবুল। তিনি স্কুল জীবন থেকে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাতে গড়া সংগঠন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের রাজনীতিতে যোগদান করেন। (১৯৯৩-১৯৯৬) চট্টগ্রাম দক্ষিন জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি। সাবেক সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, সুচক্রদন্ডী ইউনিয়ন (১৯৮১-১৯৮২)। সাংগঠনিক সম্পাদক, পটিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ (১০৮৩-১৯৮৪)। সভাপতি পটিয়া সরকারি কলেজ ছাত্রলীগ (১৯৮৫-১৯৮৬)। সাবেক সদস্য চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগ (১৯৮৫-১৯৮৬)। সাবেক সাধারন সম্পাদক, পটিয়া উপজেলা শাখা (১৯৮৭-১৯৯১)। সাবেক সদস্য বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটি (১৯৯৩)। সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক পটিয়া পৌরসভা আওয়ামী লীগ, বর্তমান সহ-সভাপতি পটিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগ দায়িত্ব পালন করছেন।তিনি শাপলা কুড়ির আসর ও বঙ্গবন্ধু পরিষদ নামে দুই সংগঠনের প্রতিষ্ঠা করেন। এই সংগঠনের মাধ্যমে তিনি মুজিব আদর্শের অসংখ্যা নেতাকর্মী সৃষ্টি কারিগর করেন নেতাকর্মীরা জানান। অবশেষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন পটিয়ার আওয়ামীলীগ পরিবারবর্গ। শেষ পযার্য় হলেও দুঃসময়ের ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন হয়েছে মনে করেন বিভিন্ন মহলের নেতৃবৃন্দ। এদিকে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাএলীগ সাবেক সভাপতি মোঃ আইয়ুব বাবুল'কে প্রধানমন্রী শেখ হাসিনা  পটিয়া পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে মনোনয়ন দেওয়ায় বুধবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে  আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাএলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ শ্রমিকলীগ খন্ড খন্ড আনন্দ  মিছিল বের করে।

সাতক্ষীরা জেলা যাত্রা ফেডারেশনের অভিষেক সভা অনুষ্ঠিত

সাতক্ষীরা জেলা যাত্রা ফেডারেশনের অভিষেক সভা অনুষ্ঠিত

 
আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টারঃ সাতক্ষীরা জেলা যাত্রা ফেডারেশনের অভিষেক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 
বুধবার সকালে শহরের মুক্তিযোদ্ধা সংসদ হল রুমে সাতক্ষীরা জেলা যাত্রা ফেডারেশনের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা এমএ আব্দুল খালেকের সভাপতিত্বে যাত্রা ফেডারেশনের অভিষেক ও শপথ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃ নজরুল ইসলাম,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ আসাদুজ্জামান বাবু। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় শ্রমিকলীগের জেলা শাখার সভাপতি সাইফুল করিম সাবু, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, আশাশুনি উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা যাত্রা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি অসীম কুমার চক্রবর্তী, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সাবেক কমান্ডার মুক্তিযোদ্ধা হাসানুল ইসলাম,
জেলা যাত্রা ফেডারেশনের সিনিয়র সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা লিয়াকত আলি, সহ-সভাপতি খন্দকার আবু বকর সিদ্দিক, হামিদ, বিশ্বজিৎ,  ফারুক হোসেন, নারায়ণ চন্দ্র ঘোষ, সাধারণ সম্পাদক বাবু দুলাল চন্দ্র দেবনাথ, রবীন কুমার দাস, কামনাশীষ মন্ডল, দীনেশ চন্দ্র মন্ডল, এমএ সালাম, গৌতম কুমার রায়, অরুন কুমার মন্ডল, মজিদ সানা, আনারুল ইসলাম, তথ্য বিষয়ক সম্পাদক সেলিম হোসেন, ঝর্না, রুপালী, কবিতাসহ জেলা ও উপজেলার যাত্রা ফেডারেশনের সদস্যবৃন্দ।

কুড়িগ্রামে চার দফা দাবিতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

কুড়িগ্রামে চার দফা দাবিতে  শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ  কেন্দ্রিয় কর্মসুচির ধারাবাহিকতায় কুড়িগ্রাম প্রেসক্লাবের সামনে আজ বুধবার সকাল ১১ টায়  চার দফা দাবিতে যৌথ মানববন্ধন করেছে কুড়িগ্রাম জেলার কারিগরি শিক্ষার্থীরা
নিজেদের স্বার্থসংশ্লিষ্ট চার দফা দাবিতে মানববন্ধন করে। দেশের কারিগরি শিক্ষার্থীদের একটি অংশ। দাবি পূরণ না হলে তাঁরা কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়েছেন।
মানববন্ধন বক্তব্য রাখেন কুড়িগ্রাম পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থী কিশোর রয়,ফরহাদ হোসেন প্রমুখ।
বক্তরা দ্রুত অষ্টম পর্বের মৌখিক পরীক্ষা (ভাইভা) গ্রহণ ও চলমান সব নিয়োগে কারিগরিদের আবেদনের সুযোগ; স্থগিত দ্বিতীয়, চতুর্থ ও ষষ্ঠ পর্বের তাত্ত্বিক অংশগুলোয় উত্তীর্ণ দেখিয়ে ব্যবহারিক অংশগুলোকে পরবর্তী পর্বের সঙ্গে যুক্ত করা; প্রথম, তৃতীয়, পঞ্চম ও সপ্তম পর্বের সিলেবাস কমিয়ে অনলাইনে ক্লাস নিয়ে দ্রুত পরীক্ষা নেওয়া এবং ২০২১ সালের মধ্যে ডুয়েটসহ চারটি প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় ও অন্যান্য প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ডিপ্লোমা শিক্ষার্থীদের জন্য আসন বরাদ্দের দাবি জানান।

সন্ধ্যায় কাউন্সিলর প্রার্থীর ভাই খুন, রাতে অভিযুক্ত কাউন্সিলর প্রার্থী বাবু খানের মরাদেহ উদ্ধার

সন্ধ্যায় কাউন্সিলর প্রার্থীর ভাই খুন,  রাতে অভিযুক্ত  কাউন্সিলর প্রার্থী বাবু খানের মরাদেহ উদ্ধার

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃঝিনাইদহের শৈলকুপা পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদপ্রার্থী বাবু খানের মরদেহ কুমার নদী থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ ১৪ জানুয়ারি রাত সাড়ে ১২ টার দিকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

উল্লেখ্য, বুধবার সন্ধা রাতে বাবু খানের সমর্থক বাপ্পির নেতৃত্বে অজ্ঞাত সন্ত্রাসীদের ছুরিকাঘাতে ৮ নং ওয়ার্ডের পৌর কাউন্সিলর প্রার্থী শওকত হোসেনের ছোট ভাই আওয়ামীলীগ কর্মী লিয়াকত হোসেন বল্টু নিহত হয়।

রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সিরাজ মন্ডলের নৌকাকে ডুবানোর জন্য মাঠে মরিয়া বিরোধী দল

রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সিরাজ মন্ডলের নৌকাকে ডুবানোর জন্য মাঠে মরিয়া বিরোধী দল



কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি //দৌলতপুর উপজেলার সীমান্তের পাশ ঘেঁষে যে কয়েকটি ইউনিয়ন রয়েছে তার মধ্যে ৫ নং রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়ন পরিষদ অন্যতম।সীমান্তের পাশ ঘেঁষে অবস্থান নেয়ায় এবং এক-তৃতীয়াংশ চরাঞ্চলের মধ্যে থাকায় আর পাঁচটি ইউনিয়নের  মত এই ইউনিয়নের মানুষের অর্থনৈতিক অবস্থা বা জীবন যাত্রার মান একটু ভিন্ন।বিএনপি-জামাত সরকারের আমলে  মাদকের অভয় অরণ্য হিসেবে এই ইউনিয়নটি বেশ পরিচিত ছিল। এই ইউনিয়নে রাত পোহালেই শোনা যেত মাদক কিংবা অস্ত্র ব্যবসায়ীদের বিভিন্ন ধরনের গল্প, খুন গুম কিংবা হাইজাকের মতো বিভিন্ন ধরনের অপকর্মে লিপ্ত থাকতো এই ইউনিয়নের অনেকেই ।আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকেই চরাঞ্চলের মানুষের প্রতি বিশেষ ভাবে নজর দেন,বিশেষ করে বর্তমান সাংসদ অ্যাডভোকেট সরওয়ার জাহান বাদশাহ্ ক্ষমতায় আসার পর থেকেই সরকারের এই নজর আরো বেগমান হয়। তাদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নের ব্যাপারে বিভিন্ন স্থানে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান স্থাপন,রাস্তাঘাটের উন্নয়ন,চোরাচালান ও মাদক বন্ধের ব্যাপারে বিশেষ পদক্ষেপ গ্রহন। মাদক ব্যবসায়ীদের আত্মসমর্পণের মাধ্যমে স্বাভাবিক জীবনযাত্রায় ফিরে আনা , অর্থনৈতিক উন্নয়নের জন্য কৃষি ক্ষেত্রে বিশেষ সহযোগিতা প্রদান সহ বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়, তবে সর্বশেষ যে পদক্ষেপটি গ্রহণ করা হয় সেটি হচ্ছে চর অঞ্চলের মানুষের জন্য বিদ্যুতের আলো।৭৫ কুষ্টিয়া-১এর সাংসদ অ্যাডভোকেট সরওয়া জাহান বাদশাহ্ এর বিশেষ উদ্যোগে দেড়শত বছরের পুরানো চরে জ্বালানো হলো বিদ্যুতের আলো।অফ গ্রীড বিদ্যুৎ এলাকাকে রুপান্তর করা হলো অন গ্রীড এলাকায় তার-ই  অংশ হিসেবে  গত ৩ জানুয়ারি উদ্বোধন করা হলো বিদ্যুতের এই আলো আর এই আলোয় আলোকিত হবে চরের প্রায়  অর্ধ লক্ষ জনগন, প্রথম পর্যায়ে পাবে দুই ইউনিয়নে প্রায় সাড়ে আট হাজার বিদ্যুতের মিটার আর এই মিটার বা বিদ্যুতের সংযোগ কে কেন্দ্র করে বিএনপি-জামাতের একটি চক্র ভিন্নরকম মিশন নিয়ে নেমেছে মাঠে আর তারই বলির পাঠা হিসাবে বেছে নিয়েছে রামকৃষ্ণপুর ইউনিয়নের জনপ্রিয় চেয়ারম্যান সিরাজ মন্ডল কে। চর এলাকার মানুষের বহুল কাঙ্ক্ষিত এই বিদ্যুৎ যেন তারা নিরাপদে ব্যবহার করতে পারে তারই অংশ  হিসেবে নেয়া হচ্ছে প্রতিটি বাড়িতে ওয়্যারিং ব্যবস্থা।পল্লী বিদ্যুৎ এর ভাষ্যমতে এই ওয়্যারিং গুলো করতে পারবে শুধুমাত্র পল্লী বিদ্যুতের তালিকা ভুক্ত টেকনিশিয়ানরা অথচ এই চরাঞ্চলে বিএনপি-জামাত  সমর্থিত কিছু ব্যক্তি নন টেকনিশিয়ান দ্বারা এই বাড়ীঘরগুলো নিম্ন মানের পন্য দিয়ে ওয়্যারিং এর কাজের মাধ্যমে  মোটা অঙ্কের একটি টাকা হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে আর সেখানে বাধা প্রদান করে সিরাজ মন্ডলের  সমর্থীত কিছু  লোক আর সেটিই উল্টো  ভাবে  চাপিয়ে  দেওয়ার  চেষ্টা করে চেয়ারম্যান  সিরাজ মন্ডলের উপর।এ বিষয়ে সিরাজ মন্ডল এর সাথে কথা বললে তিনি বলেন আমি কোন ভাবেই ওয়্যারিং এর কাজের সাথে জড়িত নই কারণ আমি নিজেও টেকনিশিয়ান না এবং কোন  ইলেকট্রিক ব্যবসার সাথেও জড়িত নই।তবে আমার এলাকায় কেউ নিম্ন মানের পন্য দিয়ে বা নন টেকনিশিয়ান দ্বারা ওয়্যারিং করিয়ে দিবে সেটিও মেনে নিব না।নিরাপত্তা বলে একটি কথা থাকে। আমার নেতা সরওয়ার জাহান বাদশাহ্ ভাই এর দিক নির্দেশনা অনুযায়ী ওয়্যারিং এর ক্ষেএে কেউ  যেন কোন দূর্নীতির আশ্রয়  না নিতে পারে সে দিকেও আমার সজাগ নজর থাকবে। সামনে আমার নির্বাচন এই নির্বাচন কে  সামনে  রেখে  বিএনপি -জামাত সমর্থীত একটি চক্র আমার জনপ্রিয়তা  দেখে এমন ধরনের অপপ্রচার  করছে।তবে তাদের উদ্দেশ্য  করে আমি  বলতে চাই এমন ধরনের  অপপ্রচার করে কোন লাভ হবে না।আমি শেখ হাসিনার রাজনৈতি করি, আমি মাহাবুব-উল-আলম হানিফ ভাই ও সরওয়ার জাহান বাদশাহ্  এর রাজনৈতি করি।চর বাসী আমাকে ভালো বাসে আমিও  চর বাসীকে ভালো বাসি।আমার নৌকা  কে কেউ চেষ্টা  করেও ডুবাতে পারবে না।