বেগমগঞ্জের ধর্ষণের প্রতিবাদে ভোলায় ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের মানববন্ধন

বেগমগঞ্জের   ধর্ষণের প্রতিবাদে ভোলায় ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের মানববন্ধন

মোঃ আওলাদ হোসেন, জেলা প্রতিনিধি, (দৌলতখান) ভোলাঃ  নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে নারীকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন এবং সাম্প্রতিক বিভিন্ন জায়গায় গণধর্ষণ, ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন-নিপিড়ন এর প্রতিবাদে ভোলায় বাংলাদেশ ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের উদ্যোগে মানবন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) বেলা ১১ টায় ভোলা প্রেসক্লাব চত্বরে ঘন্টা ব্যাপী এই মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়।

উক্ত মানববন্ধনের সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে অংশগ্রহণ করেন ৯০’ এর রাজপথ কাপানো নেতা, সাবেক ভিপি, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ইয়ারুল আলম লিটন ও ছাত্রনেতা জি.এম. ছানাউল্লাহ। এছাড়াও উক্ত মানববন্ধনে দল, মত, নির্বিশেষে বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ একাত্নতা পোষণ করে সকল ধর্ষণকারী হিংস্র জানোয়ারগুলোর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি অর্থাৎ ফাঁসির দাবি করেছেন। আর জেনো কোনো মা বোন ধর্ষণের স্বীকার না হয় সেদিনে সকল শ্রেণীর পেশার মানুষকে সোচ্চার থাকার জন্য অনুরোধ করেছেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদের ছাত্র অধিকার পরিষদের ভোলা সদরের যুগ্ম আহবায়ক সাকিব, গিয়াসউদ্দিন, বোরহানউদ্দিন উপজেলার সমন্বয়ক শাহাবুদ্দিন, শরীফ এবং চরফ্যাশন উপজেলার সদস্য সচিব অন্তর ও জেলার বিভিন্ন জায়গায় থেকে আসা নেতা ও কর্মী বৃন্দ।

বক্তারা বলেন, স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় আমাদের মা বোনেরা ধর্ষণের শিকার হয়েছিল তখন আমরা পরাধীন ছিলাম। কিন্তু স্বাধীন বাংলাদেশে ধর্ষণ করে পাড় পেয়ে যাওয়া এটা বিচারহীনতার কথা মনে করিয়ে দেয়। আমরা চাচ্ছি, ধর্ষণের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়া হোক। ধর্ষণের শাস্তি দৃষ্টান্তমূলক হলেই সমাজ ধর্ষণমুক্ত হবে। অন্যথা কোনোভাবেই সমাজকে ধর্ষণমুক্ত রাখা যাবে না।

মানববন্ধন থেকে বক্তারা ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড নিশ্চিত করা। ধর্ষণের বিচার দ্রুত কার্যকর করার জন্য আলাদা ট্রাইব্যুনাল গঠন করা এবং ১০০ কার্যদিবসের মধ্যে বিচার সম্পন্ন করাসহ ছয় দফা দাবি তুলে ধরেণ।

মানববন্ধনের সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন ছাত্র অধিকার পরিষদের বরিশাল বিভাগীয় সমন্বয়ক মো. আরিফ হোসেন।

বন্ধ করো নারীর দিকে নোংরা লোভের থাবা!

বন্ধ করো নারীর দিকে নোংরা লোভের থাবা!

মোঃ ইকরামুল করিম সৈকত, ঝিকরগাছা (যশোর) প্রতিনিধিঃ বন্ধ করো নারীর দিকে নোংরা লোভের থাবা! নামক স্লোগানকে  সামনে রেখে নাভারণে নারী সমাজের উদ্যোগে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়।

নারী ও শিশু ধর্ষণ বন্ধ ও ন্যায় বিচারের দাবিতে নাভারণ ফজিলাতুন্নেছা মহিলা কলেজের সামনে নারী সমাজের উদ্দ্যোগে বাংলাদেশের মানবাধিকার কল্যাণ ট্রাষ্ট এর সহযোগিতায় ধর্ষণের রিরুদ্ধে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়। উক্ত মানববন্ধনে কর্মসূচিতে  উপস্থিত ছিলেন সালমা আক্তার শেলী, আসিফুর দৌলা সরদার অলক,শাকিরুল আলম,ফাতেমা তুন নাহার ঐশী, মুসফিকা তাছনিম বৌশাখী। 

ধর্ষণের বিরুদ্ধে  ন্যায় বিচার প্রতিষ্টার লক্ষে নারী সমাজের ভূমিকায় উপস্থিত ছিলেন শার্শা এবং ঝিকরগাছা উপজেলার বিভিন্ন স্কুল কলেজের শিক্ষিকাবৃন্দ সহ ছাত্রীরা।

এছাড়া উক্ত মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশের মানবাধিকার কল্যাণ ট্রাষ্ট যশোর জেলা ও শার্শা উপজেলার নেতৃবৃন্দ সহ উক্ত উপজেলার  সাধারণ মানুষ এবং কিশোর সমাজ।

সুন্দরবনে অবৈধ সুন্দরী কাঠ সহ ৩ পাচারকারী আটক

 সুন্দরবনে অবৈধ সুন্দরী কাঠ সহ ৩ পাচারকারী আটক

কয়রা (খুলনা) প্রতিনিধিঃ সুন্দরবন থেকে অবৈধভাবে পাচারকালে ১০ পিচ সুন্দরী গোলকাঠ, নৌকা সহ  ৩ পাচারকারীকে আটক করেছে বন বিভাগ। জানা গেছে গত বুধবার রাত ১০ টার দিকে কাশিয়াবাদ স্টেশন কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল বাহারামের দিক নির্দেশনায় বজবজা টহল ফাঁড়ির স্টাফ হাবিবুর রহমানের নেতৃত্বে সুন্দরবনের কালিরখাল এলাকায় অভিযান চালিয়ে কাঠ,নৌকা সহ তাদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন কয়রা উপজেলার পদ্মপুকুর গ্রামের রাজ্জাক গাজী (৪৫) কালাম গাজী (৩৫) ও সামাদ গাজী (৩২)। এদেরকে কয়রা উপজেলা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রট আদালতে প্রেরন করা হয়েছে। অভিযানকালে উপস্থিত ছিলেন বজবজা টহল ফাঁড়ির স্টাফ মনির, নুরমোহাম্মাদ সহ অন্যান্য স্টাফবৃন্দ। খুলনা রেঞ্জের সহকারি বন সংরক্ষক (এসিএফ) মোঃ আবু সালেহ বলেন, এ ব্যাপারে বন আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ধর্ষণের প্রতিবাদে ঝিকরগাছায় ছাত্রলীগের উদ্যোগে আলোক প্রজ্জ্বলন

ধর্ষণের প্রতিবাদে ঝিকরগাছায় ছাত্রলীগের উদ্যোগে আলোক প্রজ্জ্বলন

মোঃ ইকরামুল করিম সৈকত, ঝিকরগাছা (যশোর) প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ঝিকরগাছা উপজেলা ও পৌর শাখা ছাত্রলীগের উদ্যোগে আলোক প্রজ্জ্বলন কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে বিবস্ত্র করে বর্বর নির্যাতনের ঘটনাসহ সারাদেশে ঘটে যাওয়া একের পর এক ধর্ষন, নারী নিপীড়নের ঘটনায় সম্পৃক্ত ও পৃষ্ঠপোষকদের গ্রেফতার করে সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত ও নারীর প্রতি সহিংসতার স্থায়ী অবসানের দাবিতে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ঝিকরগাছা উপজেলা ও পৌর শাখার উদ্যোগে ঝিকরগাছা উপজেলা মোড়স্থ বঙ্গবন্ধু ভাস্কর্য চত্বরে আলোক প্রজ্জ্বলন কর্মসুচী অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন ঝিকরগাছা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি শাহেদুর রহমান শিপলু, সাবেক ছাত্রনেতা আরিফুজ্জামান সন্টু, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ঝিকরগাছা উপজেলা শাখার বিপ্লবী সাধারণ সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেন,আরিফ হোসেন, নাঈমুর রহমান হৃদয়, হান্নান হোসেন,আরাফাত হোসেন শান্ত,মিঠুন চক্রবর্তী, সাব্বির হোসেন, শিহাব উদ্দীন রাজ, পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক তৌফিক আলম কৌশিক, কলেজ ছাত্রলীগ নেতা হাসিবুর রহমান, তৈমুর রহমান অন্তর, হাসিবুল হাসান অনিক, সানি সরদার, সংগ্রাম রায়, নূর হোসেন রানা, নাসির হোসেন, বিশ্বজিৎ মন্ডল, জয় , ইমন, সানিদ সহ উপজেলা ছাত্রলীগের বিভিন্ন ইউনিটের নেতৃবৃন্দ

নোয়াখালিতে পাঁচ টুকরো নারীর কাটা লাশ উদ্ধার!

 নোয়াখালিতে পাঁচ টুকরো নারীর কাটা লাশ উদ্ধার!

মোঃ জামাল হোসেনঃ নোয়াখালি জেলার সুবর্ণচর উপজেলার চরজব্বার ইউনিয়নে উত্তর জাহাজমারা গ্রামে বুধবার সকালে ধান ক্ষেত থেকে নুর জাহান বেগম (৫৮) এক নারীর কাটা লাশ উদ্ধার হয়।

জানা গেছে নিহত নুরজাহান বেগম একই গ্রামের মৃত আব্দুল বারেকের স্ত্রী ছিলেন। হত্যার পর লাশকে পাঁশ খন্ড করে ধান ক্ষেতে রেখে যায় দুর্বৃত্তরা। ঘটনার দিন পুলিশ ধান ক্ষেত থেকে কাটা মাথা ও কোমরে উপরের দিকের অংশ উদ্ধার করে। শরীলের বাকি অংশ তখোনো পাওয়া যায়নি।

পরের দিন বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে নিহতের বাড়ির কাছের ধান ক্ষেত থেকে  কাটা লাশের গলা ও বুক সহ কোমরের উপরি ভাগ ও দুই পা উদ্ধার করে পুলিশ। নিহতের ছেলে হুমায়ুন কবির বাদি হয়ে অজ্ঞাত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে চরজব্বার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। চরজব্বার থানার পরির্দশক (তদন্ত) ইব্রাহিম খলিল জানান সকাল থেকে পুলিশ ও এলাকার লোক একই মাঠ থেকে তল্লাশি করে শরীরের বাকি তিনটি অংশ উদ্ধার করা হয়। নিহত ব্যক্তির লাশ ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে। 

নোয়াখালী পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেন দুপুরে ঘটনার বর্ণনা দেন ও হত্যার সম্পর্কে জানান গরীব ও বিধবা এই নারীকে কেন হত্যা করা হয়েছে তদন্ত চলছে। 

মোহনগঞ্জে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের প্রতিবাদে ছাত্র ইউনিয়নের মানববন্ধন

 মোহনগঞ্জে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের প্রতিবাদে ছাত্র ইউনিয়নের মানববন্ধন

আজহারুল ইসলাম মোহনগঞ্জ প্রতিনিধি, নেত্রকোনাঃ সারাদেশে চলমান ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন কারীদের শাস্তির দাবীতে  উপজেলা ছাত্র ইউনিয়নের উদ্দ্যোগে মানববন্ধন কর্মসুচী পালিত হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে পৌর শহরের  সৈয়দ বাড়ী মোড়ে উপজেলা ছাত্র ইউনিয়নের কার্যালয়ের সম্মুখ থেকে র্যালী করে স্মৃতি হোটেলের সামনে সমাবেশ করেন। এতে উপজেলা ও বিভিন্ন ইউনিয়নের নেতা কর্মীরা অংশ গ্রহন করেন। 

সমাবেশে ভক্তারা দেশে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন কারীদেরকে ফাঁসি দেওয়ার দাবীতে ভক্তব্য প্রদান করেন। 

এ সময় উপজেলা ছাত্র ইউনিয়নের আহব্বায়ক ঐশ্বর্য আরেফিন ঋতু, যুগ্ন আহব্বায়ক রফিক হাসান সহ প্রমুখ ভক্তব্য প্রদান করেন।

ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যদণ্ডের বিধান রেখে আইন সংশোধনের উদ্যোগ

 ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যদণ্ডের বিধান রেখে আইন সংশোধনের উদ্যোগ

তাহের খান: ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ডের বিধান রেখে আইন সংশোধনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। তিনি বলেন, আগামী সোমবার মন্ত্রিসভায় এ প্রস্তাব উত্থাপন করা হবে।

বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) আইনমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

বাংলাদেশে ধর্ষণের শাস্তি দণ্ডবিধি ১৮৬০-এর ৩৭৬ ধারায় উল্লেখ্য করা হয়েছে, এর সাজা সর্বোচ্চ যাবজ্জীবন কারাদণ্ড। তবে ধর্ষণের ফলে ধর্ষিতার মৃত্যু হলে সে ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড। এছাড়া জরিমানারও বিধান রয়েছে।

ঝিনাইদহ ডিবি পুলিশের অভিযানে ৫০০ বোতল ফেন্সিডিল সহ আটক - ২

ঝিনাইদহ  ডিবি পুলিশের অভিযানে  ৫০০ বোতল ফেন্সিডিল সহ আটক - ২

খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার, খুলনা ব্যুরো প্রধানঃ ঝিনাইদহ জেলা গোয়েন্দা শাখা  ডিবি পুলিশের ওসি মোঃ আনোয়ার হোসেন জানান গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঝিনাইদহ পুলিশ সুপার জনাব মোঃ মুনতাসিরুল ইসলাম এর দিকনির্দেশনা ডিবি পুলিশের এস আই মোঃ আব্দুল আলিম এস আই মোঃ সেলিম রেজা সহ একটি চৌকস দল অভিযান চালিয়ে ০৮ অক্টোবর বৃহস্পতিবার  মহেশপুর  থানাধীন কৃষ্ণপুর ও বেতবড়িয়া থেকে আসামী ১। মোঃ রমজান অালী,পিতা-মৃত মিজানুর রহমান, সাং-কৃষ্ণপুর (বদ্দিপুর) ২।মোঃ অারিফ হোসেন,পিতা- অয়ুব আলী,সাং-বেতবাড়িয়া,উভয় থানা- মহেশপুর,জেলা- ঝিনাইদহ কে ৫০০ (পাঁচশত) বোতল ফেন্সিডিল সহ আটক করে।

উল্লেখ্য শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী রমজানের বিরুদ্ধে ঝিনাইদহ জেলার বিভিন্ন থানায় ৭ এর অধিক মামলা রয়েছে।

রুহি ফাউন্ডেশনের উদ্যেগে হাজ্বী শাহ্ আলমের সহায়তায় সেলাই মেশিন বিতরণ

 রুহি ফাউন্ডেশনের উদ্যেগে হাজ্বী শাহ্ আলমের সহায়তায় সেলাই মেশিন বিতরণ

 

করাম হোসাইন প্রতিনিধি : মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার শমসেরনগর অসহায় নারীর মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকালে রুহি ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ মৌলভীবাজার জেলা শাখার উদ্যেগে রুহি ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উপদেষ্টা হাজী শাহ্ আলম সাহেবের সার্বিক সহযোগিতায় এই সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়।

রুহি ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ এর জেলা সমন্নয়ক শাহাবুর রহমান শাহেল এর সভাপতিত্বে আলোচনায় প্রধান অতিথি হিসেবে ৪নং শমসেরনগর ইউনিয়ন সম্মানিত জনাব শেখ রায়হান ফারুক। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক দবীর হোসেন মামুন, সিনিয়র সদস্য শেখ মহসিন আহমেদ সাহান, বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব পরিষদের মৌলভীবাজার জেলা শাখার সভাপতি জনাব এনামুল হক হাসান, 

প্রবীণ মুরব্বি খালিক মিয়া সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। 

পরে ১জন প্রশিক্ষনপ্রাপ্ত মহিলার হাতে সেলাই মেশিন তুলে দেন অতিথিরা।

নীলফামারীতে ছাত্রলীগের ধর্ষণের বিরুদ্ধে আলোক প্রজ্জ্বলন

 নীলফামারীতে ছাত্রলীগের ধর্ষণের বিরুদ্ধে আলোক প্রজ্জ্বলন

মোঃ লাতিফুল আজম, কিশোরগঞ্জ নীলফামারী প্রতিনিধি: সারা দেশের ন্যায় বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক নীলফামারীর জলঢাকা ও ডিমলা উপজেলা ছাত্রলীগ মোমবাতি জ্বালিয়ে ধর্ষণের বিরুদ্ধে আলোক প্রজ্জলন করেছে। ধর্ষণের বিরুদ্ধে নিজেদের সোচ্চার হওয়ার অঙ্গিকার এবং নোয়াখালীর নারী নির্যাতনের ঘটনা সহ সকল ধর্ষণ-নিপিড়নের ঘটনায় সম্পৃক্ত ব্যক্তিদের দ্রত গ্রেফতার, সুষ্ঠ বিচার  এবং স্থায়ী অবসানের দাবীতে, জলঢাকা  উপজেলার বঙ্গবন্ধু ম্যুরাল চত্বরে এবং ডিমলা উপজেলার শহীদ মিনার চত্বরে এ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করা হয়। 

জলঢাকা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শ্রী ননলী বিশ্বাস জয় এর নেতৃত্বে কর্মসুচিতে এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল গনি স্বপন,  নীলফামারী জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি খাজা সাদ্দাম সহ উপজেলা ছাত্রলীগের নেতা কর্মীবৃন্দ। 

 ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বলেন, আমরা ধর্ষণের বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছি- আমরাও চাই ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শাস্তি হোক।

অপরদিকে  ডিমলা উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক আবু সায়েম সরকারের নেতৃত্বে উপজেলার শহীদ মিনার চত্বরে মোমবাতি  জ্বালিয়ে  ধর্ষণের প্রতিবাদ, ধর্ষণের পৃষ্টপোষকদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় এনে কঠিন বিচারের দাবি জানানো হয়। এসময় উপজেলা ছাত্রলীগের নেতা ও কর্মীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

ঝিকরগাছায় ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

ঝিকরগাছায় ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

মোঃ ইকরামুল করিম সৈকত, ঝিকরগাছা প্রতিনিধিঃ যশোরের ঝিকরগাছায় ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

সারাদেশে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে এবং সাম্প্রতিক নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে নারীকে বিবস্ত্র করে বর্বর নির্যাতনের ঘটনায় সম্পৃক্ত ও পৃষ্ঠপোষকদের গ্রেফতার করে সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত ও নারীর প্রতি সহিংসতার স্থায়ী অবসানের দাবিতে ঝিকরগাছায় বিভিন্ন সমাজিক সংগঠনের উদ্যোগে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

হবিগঞ্জে নারী নির্যাতন মামলার আসামী গ্রেফতার

 হবিগঞ্জে নারী নির্যাতন মামলার আসামী গ্রেফতার

লিটন পাঠান, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জ থেকে নোয়াখালী জেলা বেগমগঞ্জে বিবস্ত্র করে নারী নির্যাতনের মামলার আসামী সামছুদ্দিন সুমনকে গ্রেফতার করেছে নোয়াখালীর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)

এসময় অভিযানকারী দলকে সহযোগীতা করে হবিগঞ্জের পিবিআই’র একটি দল বৃহস্পতিবার (৮-অক্টোবর) সকালে গোপন তথ্যের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করা হয় সে ভারত যাওয়ার চেষ্টা করছিল বলে পুলিশ সূত্র জানায় জানা যায় চুনারুঘট উপজেলার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তর ত্রিপুরা পল্লী থেকে।

তাকে গ্রেফতার করা হয় ওই উপজেলার রেমাকালেঙ্গা বন দিয়ে সে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্ট করছিল বিষয়টি নিশ্চিত করেন হবিগঞ্জ পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) ইন্সপেক্টর মুক্তাদির তিনি বলেন, ধারণা করা হচ্ছে সে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার জন্য ত্রিপুরা পল্লীতে আশ্রয় নেয় গোপন তথ্যের ভিত্তিতে পিবিআই একটি দল তাকে গ্রেফতার করে।

আশাশুনিতে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ

 আশাশুনিতে ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ

 

আহসান উল্লাহ বাবলু,  আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধি : দেশব্যাপী ধর্ষণ ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে আশাশুনিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ আশাশুনি উপজেলা শাখার আয়োজনে আশাশুনি থানা সড়কে দীর্ঘ এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। ‘গর্জে ওঠো, রুখে দাড়াও ধর্ষকের হাত থেকে সমাজ বাঁচাও’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে ঘণ্টাব্যাপী এ মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, ছাত্রলীগের সভাপতি আসমাউল হুসাইন, সাংগঠনিক সম্পাদক মিথুন ইসলাম, কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক তানভীর রহমান রাজ, ছাত্রলীগ নেতা সাইমুন ইসলাম তারিক, আল বায়েজিদ সোহাগ, আবু রায়হান সুমনসহ বিভিন্ন ইউনিয়ন কমিটির নেতৃবৃন্দ।

এ সময় বক্তারা বলেন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ নারী নির্যাতন ও ধর্ষণের বিরুদ্ধে নীতিগতভাবে প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সোচ্চার আছে। ধর্ষকের শাস্তির গণদাবীকে সমর্থন করে আমরাও প্রতিটি ধর্ষকের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবী জানাই। কিন্তু জামায়াত-শিবির ও কিছু বাম সংগঠন এই গণদাবীর মধ্যে ঢুকে ষড়যন্ত্র করে আন্দোলনটিকে সরকার পতন আন্দোলনে রুপান্তরিত করার যে পায়তারা করছে সেটা কখনই মেনে নেওয়া হবে না। জামায়াত-শিবির চক্র দেশকে আবার অস্থিতিশীল করার অপচেষ্টা করলে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ তাদের রাজপথেই প্রতিহত করবে।

আশাশুনিতে নিরাপত্তা প্রহরী ও আয়া পদে এখনও পর্যন্ত ১৫ লক্ষের চুক্তিতে এগিয়ে সবুজ এবং শিরিনা

 আশাশুনিতে নিরাপত্তা  প্রহরী ও আয়া পদে এখনও পর্যন্ত ১৫ লক্ষের চুক্তিতে এগিয়ে সবুজ এবং শিরিনা

আহসান উল্লাহ বাবলু, আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধি: আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা ইউনিয়নের নৈকাটি দাখিল মাদ্রাসায় নব্য সৃষ্ট পদে নিরাপত্তা প্রহরী ও আয়া পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয় গত ৫ অক্টোবর। বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের কয়েক মাস পূর্ব থেকে মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি নুরুল ইসলাম ও সুপার মাওঃ শেখ এমদাদুল হকের সাথে দামাদামি চলতে থাকে আগ্রহী প্রার্থীগণের। বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের দিন পর্যন্ত সাড়ে ১০ লাখ চুক্তিতে শীর্ষে অবস্থান করছিলো অত্র মাদ্রাসার শিক্ষক নৈকাটি গ্ৰামের শহিদুল ইসলামের ছেলে সবুজ হোসেন ও একই গ্ৰামের শফিকুল ইসলাম মোড়লের পালিত কন্যা সোনিয়া খাতুন। বর্তমানে আয়া পদে  সোনিয়াকে টপকে ১৫লক্ষ টাকা চুক্তিতে শীর্ষে অবস্থান করছেন একই গ্ৰামের ইছহাক গাজীর কন্যা শিরিনা খাতুন। বর্তমানে নিরাপত্তা প্রহরী পদে সবুজ হোসেন সাড়ে ১০ থেকে বেড়ে ১৫ লাখে শীর্ষে অবস্থান করছে।

আয়া পদে চাকরি পেতে বহু দিন থেকে সভাপতি এবং সুপারের সাথে চুক্তিতে থাকা সোনিয়ার পিতা শফিকুল ইসলাম মোড়ল প্রতিবেদককে জানান, সভাপতি এবং সুপারের সাথে আমার মেয়ের জন্য সাড়ে ১০ লাখে কথা পাকাপাকি ছিলো কিন্তু বুধবার আমাকে জানানো হলো ১৫ লাখে আমরা প্রার্থী পেয়ে গেছি। শফিকুল ইসলাম মোড়ল কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, আমার কোনো সন্তান নেই। শেষ সম্বল টুকু বিক্রি করে পালিত মেয়েটার ভবিষ্যতের কথা ভেবেছিলাম। এখন দেখছি আমার সব দিক গেল। মেয়েটার চাকরী তো হচ্ছে না অন্য দিকে জমি লিখে না দিলে বেঈমানি করা হবে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে সরেজমিন গিয়ে মাদ্রাসা বন্ধ দেখা গেছে। প্রতিষ্ঠানের সাথে জড়িত কাউকে সেখানে পাওয়া যায়নি। সাংবাদিককের উপস্থিতি টের পেয়ে একে একে এলাকাবাসি জড়ো হয়ে সুপার এবং ম্যানেজিং কমিটির বিরুদ্ধে ভবন নির্মাণে দূর্নীতি, বুলবুলে ক্ষতিগ্রস্ত লোহার পাতের চালের ফ্রেম বিক্রিতে দূর্নীতি, নিরাপত্তা প্রহরী ও আয়া নিয়োগে বড় অংকের অর্থ আত্মসাতের চেষ্টা, সুপার নিয়মিত অফিসে না এসে অফিস সহকারীকে দিয়ে নকল সিগনেচার করিয়ে দৈনন্দিন অফিসের কাজ পরিচালনাসহ নানাবিধ দুর্নীতির কথা বলতে থাকেন।

জানাগেছে, শিক্ষক শহিদুল ইসলাম তার ছেলে সবুজের নিয়গের জন্য অলরেডি ৯লক্ষ টাকা সভাপতি ও সুপারের কাছে দিয়ে দিয়েছেন। বাকি টাকা ম্যানেজের জন্য রুপালী ব্যাংক বুধহাটা শাখা থেকে ৬ লক্ষ টাকা লোন নিচ্ছেন।

শিরিনা তার চুক্তির ১৫ লক্ষ টাকা ম্যানেজের জন্য স্বামী এবং তার নামীয় সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ধুলিহরস্থ বাড়িসহ জমি বিক্রি করে দিয়েছেন। রেজিস্ট্রি হবে নিয়োগের পরে।

সবুজ হোসেন, শিরিনা এবং তাদের অভিভাবকের সাথে এ বিষয়ে কথা বলতে গেলে তারা সাংবাদিকের সাথে নিয়োগ কেন্দ্রিক কথা বলতে অস্বীকৃতি জানান।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক নিয়োগ প্রার্থী প্রতিবেদককে জানান, ফেয়ার নিয়োগ হলে সবুজ এবং শিরিনার মধ্যে কেউই নিয়োগ পাবেন বলে মনে হয় না। এদের মধ্যে অনেকেই ৪/৫ লক্ষ দিতে রাজি কিন্তু সুপার এবং সভাপতির বক্তব্য তাতে পানি গরম হয় না।

মাদ্রাসার সুপার মাওঃ শেখ এমদাদুল হক জানান, নিয়োগ ফেয়ার হবে। এছাড়া আমি একা তো আর নিয়োগ দেবো না। নিয়োগের সাথে সভাপতি, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস, জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসসহ আরো অনেকে জড়িত থাকেন।

সভাপতি এবং সুপারের যোগসাজশে নিরাপত্তা প্রহরী ও আয়া নিয়োগে দুর্নীতি, অনিয়ম ও বড় অংকের অর্থ আত্মসাৎ বন্ধে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন এলাকাবাসী।

সাতক্ষীরায় ৯১ বোতল ফেন্সিডিল,পাথর ভর্তি ট্রাকসহ আটক ১

 সাতক্ষীরায় ৯১ বোতল ফেন্সিডিল,পাথর ভর্তি  ট্রাকসহ আটক ১

আহসান উল্লাহ বাবলু,আশাশুনি সাতক্ষীরা  প্রতিনিধিঃ সাতক্ষীরা ৩৩ ব্যাটালিয়ন বিজিবি এর কর্তব্যরত এলাকায় চোরাচালান প্রতিরোধের নিমিত্তে কঠোর নজরদারী এবং আভিযানিক কর্মকাণ্ড অব্যাহত রয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় ৮ অক্টোবর সাতক্ষীরা ব্যাটালিয়নের কর্তব্যরত এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে পাথর ভর্তি ১ টি ট্রাকে ৯১ বোতল ভারতীয় ফেন্সিডিলসহ ১ জন ভারতীয় নাগরিক আটক করা হয়েছে।  আটককৃত জোহরুল মন্ডল (২৪) ভারতের পশ্চিমবঙ্গের উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার ইটিন্ডা আথাপুরপূব গ্রামের আব্দুস ছামাদের ছেলে।

সাতক্ষীরা বিজিবি অধিনায়ক মোহাম্মদ গোলাম মহিউদ্দিন খন্দকার জানান, ৮ অক্টোবর রাত ১২.৩০ ঘটিকায় অত্র ব্যাটালিয়নের অধীনস্থ ভোমরা বিওপি’র টহল কমাণ্ডার হাবিলদার মোঃ শহিদুল ইসলাম এর নেতৃত্বে একটি টহল দল সীমান্ত পিলার ৩ হতে আনুমানিক ১ কিলোমিটার বাংলাদেশের অভ্যন্তরে ভোমরা স্থল বন্দর পঁাকা রাস্তার উপর অভিযান পরিচালনা করে ভারত হতে বাংলাদেশে পাচারকালে ৩৬ হাজার ৪ শত টাকা মূল্যের ৯১ বোতল ভারতীয় ফেন্সিডিল, ৬০ হাজার টাকা মূল্যের ১০ চাকার ১টি টাটা ট্রাক, ১ লক্ষ ৬৫ হাজার ৬ শত টাকা মূল্যের ৪৬ টন পাথরসহ আটককৃত মালামালের সর্বমোট মূল্য ৬২ লক্ষ ২ হাজার টাকা। আটককৃত আসামীকে জব্দকৃত মালামালসহ সাতক্ষীরা সদর থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, সাতক্ষীরা ব্যাটালিয়নের সকল সদস্যগণ সাতক্ষীরা জেলার সীমান্ত সুরক্ষা এবং চোরাচালান দমনে দৃঢ় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অবকাঠামো রক্ষার্থে চোরাচালান এবং মাদক দ্রব্য নিমর্ূল করাই সাতক্ষীরা ব্যাটালিয়নের মূল লক্ষ্য। সত্যতা নিশ্চিত করে সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আসাদুজ্জামান বলেন, এ বিষয়ে সাতক্ষীরা সদর থানায় চোরাচালান আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সাতক্ষীরায় নারী ও শিশুর প্রতি নির্যাতন ও সহিংসতার প্রতিবাদে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের প্রতিবাদ সমাবেশ

 সাতক্ষীরায় নারী ও শিশুর প্রতি নির্যাতন ও সহিংসতার প্রতিবাদে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের প্রতিবাদ সমাবেশ

আহসান উল্লাহ বাবলু, আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধি ঃ সাতক্ষীরায় নারী ও শিশুর প্রতি নির্যাতন এবং সহিংসতার প্রতিবাদে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম সাতক্ষীরা জেলা কমিটির উদ্যোগে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল ৮ অক্টোবর বেলা ১০টায় জেলা আইনজীবী সমিতির শহিদ মিনার চত্বরে সামনে এ প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সভাপতি এ্যাডঃ শেখ আব্দুস সাত্তার এর সভাপতিত্বে সংগঠনের যুগ্ম-সম্পাদক এ্যাডঃ মোস্তফা জামানের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা জেলা বিএনপি’র আহবায়ক এ্যাডঃ সৈয়দ ইফতেখার আলী, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডঃ এ,এস,এম, আশরাফুল আলম, সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য এ্যাডঃ এ,বি,এম, সেলিম, এ্যাডঃ মোঃ শহিদুল্লাহ (২), এ্যাডঃ সরদার আমজাদ হোসেন, এ্যাডঃ মহিতুল ইসলাম, এ্যাডঃ অসীম কুমার মন্ডল, এ্যাডঃ সরদার সাইফ, এ্যাডঃ নুর“ল আমীন, এ্যাডঃ ফেরদাউস হোসেন, এ্যাডঃ হাসনাত মনির, এ্যাডঃ আমিনুল ইসলাম, এ্যাডঃ শিহাব মাসউদ সাচ্চু, এ্যাডঃ সিরাজুল ইসলাম, এ্যাডঃ  তোহা কামাল উদ্দিন, এ্যাডঃ মিজানুর রহমান বাপ্পী, এ্যাডঃ শেখ আবু সাইদ রাজা, এ্যাডঃ জিয়াউর রহমান, এ্যাডঃ মোস্তফা হেলালুর রহমান, এ্যাডঃ ফিরোজ আহমেদ সুমন, এ্যাডঃ রফিকুল ইসলাম, এ্যাডঃ মিজানুর রহমান প্রমুখ। 

নেতৃবৃন্দ বলেন, দেশে নারী নির্যাতন, শিশু নির্যাতন, ধর্ষণ ও নারীর প্রতি সহিংসতা বহু বেড়ে গেছে। গৃহবধু, কলেজ ছাত্রী, মাদ্রাসার শিশু বাচ্চা কেহ নির্যাতনের হাত থেকে রেহাই পাচ্ছে না। সম্প্রতিকালে ঘটে যাওয়া সকল ঘটনার সুষ্ঠু নিরপেক্ষ তদন্ত, আসামীদের দ্র“ত গ্রেফতারের দাবী এবং দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবী জানান।

মোংলায় ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন বন্ধে পুলিশের ব্যতিক্রমী উদ্যোগ

মোংলায় ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন বন্ধে পুলিশের ব্যতিক্রমী উদ্যোগ

মোঃএরশাদ হোসেন রনি, মোংলা: দেশব্যাপী ধর্ষণসহ নারী নির্যাতন বন্ধে ব্যতিক্রমী কর্মকাণ্ড শুরু করেছে মোংলা থানা পুলিশ। ওই কার্যক্রমের অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার দুপুরে মোংলার কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীর সাথে নারী-শিশু ধর্ষণ ও নির্যাতন বন্ধে সচেতনতামুলব সভা করে থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইকবাল বাহার চৌধুরী। এ সময় উপস্থিত শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা গত ৩ অক্টোবর মোংলার মাকড়ঢোন এলাকায় ধর্ষণের শিকার হওয়া ৭ বছরের শিশুর মামলার বিষয়েও খোঁজ খবর নেন। উপস্থিত শিক্ষক- শিক্ষার্থীর কাছ থেকে নারী ও শিশু নির্যাতনের বিষয়ে বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ করে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইকবাল বাহার বলেন, ধর্ষনের শিকার ওই শিশুর ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। রিপোর্ট পজেটিভ এসেছে। দ্রুত সময়ে মধ্য মামলার তদন্ত রিপোর্ট আদালতে পাঠানো হবে। উল্লেখ্য, গত ৩ অক্টোবর মোংলার নারকেলতলা আবাসনে ৭ বছরের শিশু ধর্ষণের শিকার হয়। ওই ঘটনার কিছুক্ষণ পরেই পুলিশ ধর্ষক আঃ মান্নান (৫০) কে আটক করে মামলা দায়ের শেষে আদালতে প্রেরণ করে।


এ সময় মোংলা কলেজের প্রভাষক নিগার সুলতানা সুমি বলেন, কিছু মানুষের মনুষ্যত্ব হারিয়ে গেছে। তাই তারা দিন দিন হিংস্র হয়ে উঠছে। নারী-শিশু নির্যাতনসহ নানা সমাজ বিরোধী কর্মকান্ড করছে মানুষরুপি নরপিচাশের দল। সমাজের সকল শ্রেণী পেশার মানুষদের এক হয়ে কাজ করার আহবাণ জানান তিনি।


এ সময়  ওসি ইকবাল বলেন, নারী শিশু নির্যাতন বন্ধে সব সময় সর্তক অবস্থানে থেকে কাজ করে যাচ্ছে পুলিশ। তাই পুলিশের কর্মকান্ডে শিক্ষক-শিক্ষার্থী সবাইকে সহায়তা করার আহবাণ জানান তিনি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন মোংলা কলেজের প্রভাষক নিগার সুলতানা সুমি, শিক্ষার্থী শেখ সালমান রাজ, মাসুদ রানা, সাইফুল আহম্মেদ, মোঃ কাউসার, সাদিয়া আফরিন, সানজিদা স্বর্ণা, নাজিয়া আফরিন, স্নেহা ইসলাম অহনা। #

ময়মনসিংহের তারাকান্দায় শিশু ধর্ষণকারী জাহাঙ্গীর গ্রেফতার

ময়মনসিংহের তারাকান্দায় শিশু ধর্ষণকারী জাহাঙ্গীর গ্রেফতার

আর.জে মিজানুর রহমান ইমন, স্টাফ রিপোর্টার : ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের চাড়িয়া গ্রামে শিশু ধর্ষণের মামলার আসামী, জাহাঙ্গীর কে ময়মনসিংহ যার্ব-১৪ অভিযান চালিয়ে, টাঙ্গাইল জেলার মধুপুর থেকে আটক করেছে ।  

জানা গেছে, ধর্ষক জাহাঙ্গীর উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের হাসিম উদ্দিনের পুত্র, সে তার ফুফাত বোনের মেয়ে শিশু কন্যা (ভাগনী) কে পটেটো চিপস দেওয়ার লোভ দেখিয়ে নিজ ঘরে নিয়ে শিশুটি কে  জাহাঙ্গীর জোর পূর্বক ধর্ষণ করে । 

এ ব্যাপারে তারাকান্দা থানায় মামলা দায়ের করলে আজ (৮ই অক্টোবর) বৃহস্পতিবার জাহাঙ্গীর ময়মনসিংহ যার্ব-১৪ হাতে গ্রেফতার হয় । বৃহস্পতিবার ময়মনসিংহ যার্ব-১৪ কার্যালয়ে প্রেস বিফ্রিংয়ে উপস্থিত সাংবাদিকদের এ তথ্য জানানো হয়েছে ।

হবিগঞ্জে গৃহবধূ ধর্ষণের অভিযোগ; নেপথ্য যৌন মিলনের টাকা না পাওয়ায় ধর্ষণের নাটক

 হবিগঞ্জে গৃহবধূ ধর্ষণের অভিযোগ; নেপথ্য যৌন মিলনের টাকা না পাওয়ায় ধর্ষণের নাটক
লিটন পাঠান, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ  হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে আউশকান্দি ইউনিয়ন পরিষদের পরিত্যক্ত ভবনে আলোচিত গৃহবধূ কথিত ধর্ষনের অভিযোগের চাঞ্চল্যকর তথ্য বেড়িয়ে এসেছে। আটককৃত যুবক, কথিত ধর্ষিতা গৃহবধূ ও তার স্বামীকে ত্রিমুখী জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনার রহস্য উদঘাটন করেছে পুলিশ। গত মঙ্গলবার রাতে আটককৃত সাইফুল ইসলাম আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে জানায় ওই মহিলা একজন যৌনকর্মী। তাকে ২ হাজার টাকা চুক্তিতে আনা হয়েছিল পরে যৌনমিলন শেষে টাকা না দেয়ায় এমন নাটক সাজিয়েছে পুলিশ ও দায়িত্বশীল সূত্র জানায় উপজেলার দেবপাড়া ইউনিয়নের।

কালাভরপুর গ্রামের ওই গৃহবধূর ইতি পূর্বে ৪টি বিয়ে হয় পারিবারিক ভাবে পৌর এলাকার গন্ধা গ্রামের এক ব্যক্তির সাথে বিয়ে দেয়া হয়, অবাধ চলাফেরার কারণে অল্পদিনেই বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে এরপর গজনাইপুর ইউনিয়নের সাতাইহাল গ্রামে ২য় বিয়েরও বিচ্ছেদ ঘটে একপর্যায়ে সে সকলের অগোচরে উমান চলে যায় কিছুদিন পর দেশে আসে। এরপর কুর্শি ইউনিয়নের রতনপুর গ্রামের আমীর মিয়ার সাথে ৩য় বিয়েতে আবদ্ধ হয় এর কিছুদিন পর এ বিয়েও ভেঙে যায় ৪র্থ বিয়ে হয় আজমিরীগঞ্জ উপজেলার শিবপাশা গ্রামের কাশেম মিয়ার সাথে বর্তমানে সে ওই স্বামীর সাথে রয়েছে।

আলোচিত ঘটনায় পুলিশের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে কথিত ধর্ষণ ঘটনার রহস্য উদঘাটন করেন এএসপি পারভেজ আলম চৌধুরী ও থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আজিজুর রহমান

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, জিজ্ঞাসাবাদে ধৃত আসামি সাইফুল মিয়া জানায় ওই মহিলা তাদের সহকর্মী জামিলের পরিচিত এমনকি এই মহিলা একজন ভাসমান যৌনকর্মী। তারা ৪ জনে যৌনমিলন করার জন্য ২ হাজার টাকা চুক্তিতে ওই মহিলাকে নিয়ে আসেন তারা মহিলাকে সিএনজি অটোরিকশা দিয়ে শেরপুর থেকে নিয়ে আসেন আউশকান্দি ইউনিয়ন অফিসের পরিত্যক্ত ভবনে এনে মহিলার সাথে যৌনমিলন করে ৪ খদ্দের।

পরে আরো ২ জন আসে কিন্তু মহিলা তাদের সাথে শারীরিকমিলনে মিলিত হতে রাজি হননি। মহিলা প্রতিবাদি সুরে জানায় তাকে ২ হাজার টাকায় ৪ জনের কথা বলে আনা হয়েছে এর বাহিরে আর কারো সাথে যৌনমিলন করতে পারবেনা এ নিয়ে হট্রগোল হয়। অতঃপর খদ্দেররা সারা রাত মহিলার সাথে জোরপূর্বক অনৈতিক শারীরিক মিলনের পর ভোরে মহিলাকে একা ঘরে রেখে টাকা না দিয়েই পালিয়ে যায়। কথামতো টাকা না দেয়া নিয়ে বিপত্তি দেখা দেয় ওই ঘটনা প্রকাশ হলে সৈয়দপুর বাজারের বিভক্ত শ্রমিকদের একটি গ্রুপ ওই মহিলাকে দিয়ে ধর্ষণের নাটক তৈরি করে এদিকে এনিয়ে গৃহবধূকে।

জিজ্ঞাসাবাদকালে তথ্য প্রমান উপস্থা পনের পর সে সত্যতা স্বীকার করে এ সময় কথিত ওই গৃহবধূকে তার পারিবারিক জিম্মায় দেয়ার চেষ্টা করে পুলিশ ওই মহিলা পরিবারের জিম্মায় যেতে অস্বীকার করে তার চতুর্থ স্বামী এবং শাশুড়ির জিম্মায় যেতে চায়, পরে হবিগঞ্জ পুলিশ সুপারের নির্দেশনায় তাকে চতুর্থ স্বামীর জিম্মায় দেয়া হয় অপরদিকে, আটক অভিযুক্ত অটোরিকশা ( সিএনজি ) চালক সাইফুলকে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। গতকাল বুধবার দুপুরে তাকে হবিগঞ্জ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রিট আদালতে পাঠানো হয় এ খবর নিশ্চিত করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) উত্তম কুমার দাশ।

এ নিয়ে ৩ জনের নাম উল্লেখ করে আরো ৩ জনকে অজ্ঞাত রেখে ৬ জনের বিরুদ্ধে নবীগঞ্জ থানায় মামলা হয়েছে। অপর অভিযুক্তদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান চলছে, উল্লেখ্য গত সোমবার রাতভর কথিত ধর্ষণের শিকার গৃহবধূর ভিন্ন ভিন্ন বক্তব্য নিয়ে নানা নাটকিয়তা দেখা দেয়। এনিয়ে রাতভর গৃহবধূ ও তার স্বামীকে নবীগঞ্জ থানায় ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ এক পর্যায়ে ৬ জনের নামে থানায় মামলা হয়। এরই ভিত্তিতে ২নং অভিযুক্ত আউশকান্দি ইউনিয়নের আলমপুর গ্রামের সাদিক মিয়ারপুত্র সাইফুলকে প্রযুক্তির সহায়তায় মঙ্গলবার রাতে একই ইউনিয়নের মিনহাজপুর গ্রাম থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আলোচিত ঘটনায় হবিগঞ্জ পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্লার নির্দেশনায় পুলিশের ৪টি দল মাঠে সরব হয়। মাঠে থেকে ঘটনার মনিটরিং করেন, নবীগঞ্জ-বাহুবলের সার্কেল এএসপি পারভেজ আলম চৌধুরী এবং নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আজিজুর রহমান।

কিশোরগঞ্জে নিখোঁজের ২৪ ঘন্টা পর নদী থেকে কৃষকের লাশ উদ্ধার

কিশোরগঞ্জে নিখোঁজের ২৪ ঘন্টা পর নদী থেকে কৃষকের লাশ উদ্ধার

মোঃ লাতিফুল আজম,কিশোরগঞ্জ নীলফামারী প্রতিনিধি: জমিতে কাজ শেষে চাঁড়ালকাটা নদী পার হয়ে বাড়ি ফেরার সময় গভীর পানিতে ডুবে মহির উদ্দিন (৩৫) নামে এক কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। ঘটনাটি ঘটে বুধবার বিকাল সারে চারটার দিকে নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার পুটিমারী ইউনিয়নের শালটিবাড়ি সরকারপাড়া গ্রামে।  নিখোঁজের ২৪ ঘন্টা পর বৃহস্পতিবার দুপুর দেড়টার দিকে লাশ উদ্ধার করেছে রংপুর ফায়ার সাভিসের ডুবুরীদল।  নিঁখোজ কৃষক একই গ্রামের মহসিন আলীর ছেলে।

কিশোরগঞ্জ ফায়ার সাভির্সের ষ্টেশন অফিসার রেদওয়ানুজ্জামান জানান, নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার শালটিবাড়ি গ্রামের এক কৃষক জমিতে কাজ শেষে নদী পার হয়ে বাড়ি ফেরার সময় গভীর পানিতে ডুবে নিঁখোজ হয়েছে এলাকাবাসীর কাছ থেকে এমন সংবাদ পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যাই।  পরে রংপুর ফায়ার সাভিসের একটি ডুবুরীদল গতকাল বুধবার থেকে বৃহস্পতিবার অভিযান চালিয়ে দুপুর দেড়টার দিকে লাশ উদ্ধার করে।

মাধবপুরে বেতন বৃদ্ধির দাবিতে ৫টি চা বাগানের শ্রমিকদের কর্মবিরতি

 মাধবপুরে বেতন বৃদ্ধির দাবিতে ৫টি চা বাগানের শ্রমিকদের কর্মবিরতি

লিটন পাঠান, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার ৫টি চা-বাগানে করোনার মধ্যে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন চা শ্রমিকরা দেশের বৃহত্তম মাধবপুর উপজেলার সুরমা চা বাগানের প্রতিটি শ্রমিকের একটি শ্লোগান দুনিয়ার মজদুর এক হও এক হও চা শ্রমিকদের মজুরি বাড়াতে হবে বাড়াতে হবে মজুরি নিয়ে তালবাহানা চলবে না চলবে না চা শ্রমিকদের, আন্দোলন চলছে চলবে বেতন বৃদ্ধিসহ দুর্গা পুজার আগে বেতন বোনাস পরিশোধের দাবিতে মাধবপুর উপজেলায় ৫টি বাগানে (৮-অক্টোবর) কর্মবিরতি পালন করেছে চা শ্রমিকরা।

উপজেলার সুরমা চা বাগানে শ্রমিকরা ৩ ঘন্টার কর্মবিরতি পালন করলেও তাদের সাথে তেলিয়াপাড়া চা বাগান শ্রমিকরা কর্মবিরতিতে যোগ দেয় কর্মসূচি পালনকালে চা বাগান পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি ও চা শ্রমিক নেতৃবৃন্দরা বলেন, দৈনিক মাত্র ১০২ টাকার মজুরিতে এক একটি পরিবারের ৬ থেকে ৭ সদস্যের জীবনযাপন খুবই কষ্টকর। প্রতি দুই বছর অন্তর চা শ্রমিক ইউনিয়ন ও চা বাগান মালিক পক্ষের সংগঠন বাংলাদেশীয় চা সংসদের মধ্যে বৈঠক করে মজুরি বৃদ্ধি করা হয় মজুরি বৃদ্ধির মেয়াদ শেষে। 

আরও কয়েক মাস অতিক্রম করলে নতুন করে চা শ্রমিকদের মজুরি এখনও বৃদ্ধি হয়নি ফলে চা শ্রমিক পরিবারগুলো মানবেতর জীবন পার করছে। তাই এখন বাধ্য হয়ে একযোগে বাংলাদেশের ২২৮টি চা বাগানে কর্ম বিরতি পালনসহ মানববন্ধন ও মিছিল চলছে। সুরমা চা বাগানে ভ্যালী সভাপতি রবীন্দ্র গৌড় বলেন এ বছর চায়ের দাম প্রায় দ্বিগুন বেড়েছে কিন্তু মালিকরা শ্রমিকদের সাথে সম্পাদিত চুক্তি বাস্তবায়নে গড়িমসি করছে চুক্তি বাস্তবায়ন না হওয়ায় শ্রমিকদের মজুরী বাড়ছে না।

তেলিয়াপাড়া চা বাগান পঞ্চায়েত কমিটির খোকন তাতী বলেন চা শ্রমিকদের দৈনিক মজুরি বৃদ্ধি একটি নিয়মতান্ত্রীক বিষয়। চা বাগানের মালিক পক্ষের সংগঠন বাংলাদেশী চা সংসদ সময়ের মধ্যে মজুরি বৃদ্ধি না করায় চা শ্রমিকদের সাথে প্রতারণা করেছে। তিনি জোর দাবি জানিয়ে বলেন অবিলম্বে চা শ্রমিকদের মজুরি বৃদ্ধি করে ও সাথে সাথে উৎসব বোনাস প্রদান করতে হবে।

বড়লেখায় অসহায় ২৬২ পরিবারে নতুন ঘরের চাবি হস্তান্তর

বড়লেখায় অসহায় ২৬২ পরিবারে নতুন ঘরের চাবি হস্তান্তর

আকরাম হোসাইন প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের বড়লেখায়  অসহায় দরিদ্র ২৬২ টি পরিবারের মাঝে নতুন ঘরের চাবি হস্তান্তর করা হয়েছে।বড়লেখা উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত সরকারি বিভিন্ন সংস্থার চারটি প্রকল্পের মাধ্যমে গৃহহীন, অসহায় ও দুস্থদের জন্য তিন কোটি ৩৬ লাখ ৯৯ হাজার ৫০০ টাকা ব্যয়ে এগুলো নির্মান করা হয়।  বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) বড়লেখা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে গৃহহীনদের মাঝে নতুন ঘরের চাবি তুলে দেন স্থানীয় সংসদ ও গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পরিবেশ,বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব মোঃ শাহাব উদ্দিন এমপি।

প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ পরিবেশ,বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব মোঃ শাহাব উদ্দিন এমপি।

ঘরের চাবি বিতরণ অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বড়লেখা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. সোয়েব আহমদ, বড়লেখা পৌরসভার মেয়র আবুল ইমাম মো. কামরান চৌধূরী, বড়লেখা উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক উপাধ্যক্ষ এ কে এম হেলাল উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম সুন্দর প্রমুখ।

বড়লেখায় চা শ্রমিকদের মধ্যে চেক বিতরণ অনুষ্ঠান

বড়লেখায় চা শ্রমিকদের মধ্যে চেক বিতরণ অনুষ্ঠান

আকরাম হোসাইন প্রতিনিধিঃ মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয়,বড়লেখা আয়োজনে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে সমাজসেবা অধিদফতর কর্তৃক চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন কর্মসূচির আওতায় ১৮৭৯ জন চা শ্রমিকদের মধ্যে ৫,০০০ টাকা সর্বমোট ৯৩,৯৫,০০০ টাকার অনুদানের চেক বিতরণ অনুষ্ঠান হয়।

প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী জনাব মোঃ শাহাব উদ্দিন এমপি। উপজেলা নির্বাহী অফিসার, বড়লেখা মোঃ শামীম আল ইমরান এর সভাপতিত্বে  অনুষ্ঠিত দুটি অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ,বড়লেখার চেয়ারম্যান জনাব সোয়েব আহমেদ, বড়লেখা পৌরসভার মেয়র জনাব আবুল ইমাম মোঃ কামরান চৌধুরী, উপজেলা পরিষদ, বড়লেখার সাবেক চেয়ারম্যান জনাব মোঃ রফিকুল ইসলাম সুন্দর প্রমুখ। অনুষ্ঠান দুটি পরিচালনা করেন উপজেলা পরিষদ, বড়লেখার ভাইস চেয়ারম্যান জনাব মোঃ তাজ উদ্দিন।

নাটোরের শাপলা ক্লিনিকে সিজারের রুগীর পেটে গজ রেখে সেলাই

নাটোরের শাপলা ক্লিনিকে সিজারের রুগীর পেটে গজ রেখে সেলাই

আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টারঃ সম্প্রতি নাটোরের শাপলা ক্লিনিকে, সিজারের রুগীর পেটে, গজ রেখেই সেলাই করার অভিযোগ পাওয়া গেছে, জানা গেছে, গত ১৮ই সেপ্টেম্বর রাতে নাটোর সদরের হয়রতপুর গ্রামের মোঃ উজ্জ্বল এর স্ত্রী মোছাঃ রুমি বেগম (২০) কে অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায়, সিজারের জন্য ভর্তি করেন কানাইখালি শাপলা ক্লিনিকে, যথারীতি সিজারের মাধ্যমে একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন তিনি। 

গত ২৩ সেপ্টেম্বর তাকে ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ, বাড়ি যাওয়ার ছাড়পত্র দেন। কিন্তু রোগীর পেটের ব্যথা কিছুতেই কমছেনা দেখে, কয়েকদিন পরে আল্ট্রাসোনোগ্রাফের মাধ্যমে  ডাঃ নিশ্চিত হন রুগীর পেটে গজ রেখেই সেলাই করা হয়েছে। অতঃপর ৩ অক্টোবর সিজারের রুগী কে পুনরায়  অপারেশন করে গজ বের করা হয়।

বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসা ও ঔষধের করচের টাকা পরিশোধ করতে না পারায় মানবেতরভাবে দিনাতিপাত করছেন রুগীর স্বামী একজন অসহায় গার্মেন্টস কর্মি মোঃ উজ্জ্বল। 

বিষয় টি উদ্ধোতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনার অনুরোধ জানিয়েছেন রুগীর স্বজনেরা।

এ ব্যাপারে শাপলা ক্লিনিকের ০১৭.....৭১২ নং যোগাযোগ করে কাউকে পাওয়া যায়নি বিধায় ক্লিনিক কর্তৃপক্ষের মতামত নেয়া সম্ভব হয়নি।

আজ কেন এতো ধর্ষণ? : মোঃ জামাল হোসেন জয়

 আজ কেন এতো ধর্ষণ? :  মোঃ জামাল হোসেন জয়


থামিয়ে দে নারীর দিকে নোংরা লোভের থাবা

একদিনও তো তোরায় হবি কোন নারীর বাবা,

লাজ লজ্জার মাথা খেয়ে সব করছিস নারী ধর্ষণ

তা আবার ছড়িয়ে দিচ্ছিস কতো যে হবে দর্শন।


ধর্ষণ যে করে সে মানুষ রুপে জানোয়ার নর পশু

মানুষ রুপে জন্ম নিয়ে কি হলো তার দস্যু

হায়রে পুরুষ কিসের লোভে করিস তুই ধর্ষণ

সেই নারীকে করিলি ধর্ষণ যে তোর ভর্ষণ।


আজ কোথায় গেছে তোর ওই মানবতা

কোথায় রেখেছিস তোর মনের মহানুবতা,

কেন করলি ধর্ষণ, ধর্ষিতা যে তোর বোন

কোথায় ছিলো তোর মানবতা  সেই মন?


অশ্বীলতাকে করছিস বার বার দোষারোপ

তার পরেও কমছেনা তো নারীর প্রতিলোভ

যেই নারী তোর গর্ভে নিয়ে জন্ম দিলো

তাকেই তোরা সবে করলি উলঙ্গ, উদবস্ত্র।


থামা তোদের এই নিকৃষ্ট সব ধর্ষণ

মা, বোনকে করিস না আর বিবস্ত্র দর্শন,

ক্ষমা চা আজ তোরা সব জাতির কাছে

কর সম্মান তোর মা বোনদের কে।

সিরাজগঞ্জে পানিতে ডুবে শিশু মৃত্যুর প্রতিরোধে সড়ক প্রচারণা

 সিরাজগঞ্জে পানিতে ডুবে শিশু মৃত্যুর প্রতিরোধে সড়ক প্রচারণা


মাসুদ রানা, সিরাজগঞ্জ জেলা প্রতিনিধিঃ শিশু ও নারী উন্নয়নে সচেতনতামূলক যোগাযোগ কার্যক্রম (৫মপর্যায়) শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় শিশুদের পানিতে ডুবে মরা প্রতিরোধে সেপ্টেম্বর-অক্টোবর মাস ব্যাপী প্রচারণা কার্যক্রম শুরু হয়েছে।গতকাল বৃহস্পতিবার   দিনব্যাপী   সিরাজগঞ্জ জেলা তথ্য  অফিসের ব্যবস্থাপনায় মাসব্যাপী প্রচার কার্যক্রমের অংশ হিসেবে রায়গঞ্জ  উপজেলার পৌরসভা এবং ধুবিল ইউনিয়ন  ও ঘুড়কা ইউনিয়নের গুরুত্বপূর্ণ  ও জনবহুল স্থানে  শিশুদের পানিতে ডুবে মরা প্রতিরোধে এবং জাতীয়  ভিটামিন-এ প্লাস ক্যাম্পেইন সম্পর্কিত  জরুরি বার্তা সম্পর্কে সচেতনতামূলক মাইকিং এর মাধ্যমে  প্রচার  প্রচারণা  করা হয় ।প্রচারণাকলে সচেতনতায় মাইকিং করে ৫ থেকে ১০ বছরের শিশুকে সাঁতার শিখানো, নিজ বাড়ির অপ্রয়োজনীয় ডোবা-নালা, জলাশয় পুকুর ভরাটকরন, প্রয়োজনীয় জলাধর পুকুর ডোবানালা ঘেরা-বেড়া দিয়ে রাখতে বলা হয়।মাসব্যাপী জেলার ৮৩ টি  ইউনিয়ন ও ৭ টি পৌরসভায় প্রচার কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানান জেলা তথ্য অফিসার  মুহাম্মদ  আবুল  খায়ের।

বদলগাছী পাহাড়পুরের ধর্ষণ বিরোধী মানববন্ধন ও র‍্যালী

 বদলগাছী পাহাড়পুরের ধর্ষণ বিরোধী মানববন্ধন ও র‍্যালী

রহমত উল্লাহ আশিক, বদলগাছী নওগাঁঃ নারীর প্রতি সহিংসতার ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় সারা দেশের ন্যায় নওগাঁ জেলার বদলগাছী উপজেলা পাহাড়পুর বৌদ্ধবিহার  এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। নারীর প্রতি সহিংসতা যেন বেড়েই চলেছে এ যেন কালো মেঘে ঢাকা একটি আকাশ তাহারি পরিপ্রেক্ষিতে,৮ই অক্টোবর বেলা ১০.০০টায় কয়েকটি সংগঠনের উদ্যোগে  পাহাড়পুর বাজারে তিনমাথা মোরে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ এলাকাবাসী শিক্ষক-শিক্ষিকা এ মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করেন।

মানববন্ধনে পাহাড়পুর ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান হাজী দানেশ বিশ্ববিদ্যালয় এর অধ্যাপক মিজানুর রহমান পাহাড়পুর আদিবাসী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মামুনুর রশিদ ফ্রেন্ডস সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন এর প্রতিনিধি পিয়াশ সহ আরো নেতাকর্মীর শিক্ষক  শিক্ষার্থীবৃন্দ বক্তব্য প্রদান করেন।

দেশে বর্বোরোচিত ধর্ষণ 

নোয়াখালী বেগম গঞ্জের গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নারীর উপর বর্বরতা সিলেট এমসি কলেজে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণ 

রাজশাহী গির্জায় কিশোরীকে আটকে রেখে ধর্ষণ সহ সারা দেশব্যাপী যে ধর্ষণ নির্যাতন নিপীড়ন এর বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করার জন্য সরকারের কাছে দাবি উত্থাপন করেন। যাতে কোন শিশু-কিশোর-কিশোরী কে ধর্ষণ নির্যাতন নিপিরণের শিকার না হতে হয় রাস্তাঘাটে শিশু নারী প্রতি যে সহিংসতা বর্বরতা চলছে তা নির্বাসিত হয় এবং মানববন্ধন শেষে "ধর্ষকের কালো হাত ভেঙ্গে দাও গুড়িয়ে দাও" এ স্লোগানকে সামনে রেখে  ব্যানার প্লে কার্ড ও ফেস্টুন হাতে নিয়ে নারীর প্রতি সহিংসতা ও ধর্ষণের প্রতিবাদ জানিয়ে র‍্যালী  অনুষ্ঠিত হয়।

আশাশুনিতে নগদ অর্থ ও সবজি বীজ বিতরণ

 আশাশুনিতে  নগদ অর্থ ও সবজি বীজ বিতরণ

আহসান উল্লাহ বাবলু আশাশুনি সাতক্ষীরা প্রতিনিধিঃ আশাশুনিতে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি সাতক্ষীরা ইউনিট এর পক্ষ থেকে সুপার সাইক্লোন  আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্ত সুফলভোগীদের মাঝে নগদ অর্থ ও সবজি বীজ বিতরণ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে এতিম ছেলেমেয়েদের জন্য কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে এ বিতরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়।সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে নগদ অর্থ ও সবজি বীজ বিতরণের উদ্বোধন করেন সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি সাতক্ষীরা ইউনিটের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ নজরুল ইসলাম। বিতরণ কালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন,রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি সবসময় আত্মমানবতার সেবায় নিয়োজিত। ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্ত আশাশুনি উপজেলার শ্রীউলা ও প্রতাপ নগর ইউনিয়নের পানিবন্দি মানুষের পাশে থেকে তাদেরকে আর্থিক সহায়তা ও সবজি বীজ বিতরণ করা হচ্ছে। ভবিষ্যতে এই অঞ্চলের মানুষের কল্যাণার্থে আমরা কাজ করে যাব এবং দুস্থ অসহায় মানুষ যাহাতে আরও বেশি সুযোগ-সুবিধা পায় সে ব্যাপারে আমি আমার সর্বোচ্চ চেষ্টা অব্যাহত রাখব। রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি সাতক্ষীরা ইউনিটের পক্ষ থেকে শ্রীউলা ইউনিয়নে দুইশত ও প্রতাপ নগর ইউনিয়নে দুইশত সুফলভোগী পরিবারের মাঝে চার হাজার পাঁচশত টাকা ও সবজি বীজ বিতরণ করা হয়। আশাশুনি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এবিএম মোস্তাকিমের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি সাতক্ষীরা ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ ফিরোজ কামাল শুভ্র।রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটি সাতক্ষীরা ইউনিটের নির্বাহী সদস্য শেখ হারুন আর রশিদ এর সঞ্চালনায় এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপ-পরিচালক এস এম আক্তার হোসেন, নির্বাহী সদস্য শেখ তৌহিদুর রহমান ডাবলু, শ্রীউলা ইউপি চেয়ারম্যান আবু হেনা সাকিল, জেলা পরিষদ সদস্য মোঃ মহিতুর রহমান,মোঃআব্দুল হাকিম প্রমূখ।

ধর্ষণের বিরুদ্ধে গোপালপুরে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

ধর্ষণের বিরুদ্ধে গোপালপুরে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

ডা.এম.এ.মান্নান,টাংগাইল জেলা প্রতিনিধিঃ সারা দেশে অব্যাহত হারে বৃদ্ধি পাওয়া ধর্ষণ, গণধর্ষন, নারীর প্রতি সহিংসতাসহ সকল প্রকার সামাজিক অনাচারের বিরুদ্ধে ও দোষীদের গ্রেফতার করে শাস্তির দাবীতে  বিক্ষোভ মিছিল সহ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেছে সচেতন গোপালপুর বাসী ও সাধারন ছাত্র সমাজ। 

আজ বৃহস্পতিবার ,০৮অক্টোবর সকাল ১০ঃ০০  ঘটিকায় সূতী হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী উচ্চ বিদ্যালয়ের  গেট থেকে শুরু করে গোপালপুরের প্রধান প্রধান ফটকের সামনে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজন করে সচেতন গোপালপুর বাসী সমাজ।

মঠবাড়িয়ায় মাথার খুলি বিহীন শিশু সন্তানের জন্ম

 মঠবাড়িয়ায় মাথার খুলি বিহীন শিশু সন্তানের জন্ম

মিঠুন কুমার রাজ, স্টাফ রিপোর্টারঃ 

মঠবাড়িয়ায় মাথার খুলি বিহীন শিশু সন্তানের জন্ম। টাকার অভাবে পারছেননা উন্নত চিকিৎসা করাতে।

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া সৌদি প্রবাসী হাসপাতালে মাথার খুলি বিহীন একটি শিশু সন্তানের জন্ম হয়েছে।

জানা যায়, উপজেলার মিরুখালী ইউনিয়নের ছোট শৌলা গ্রামের বাসিন্দা মৃত মোঃ মকবুল মাষ্টারের নাতি মোঃ জহির আকনের স্ত্রী আয়শা বেগমের, গতকাল বুধবার আনুমানিক বেলা ২.১০ মিঃ সময়  সিজার অপারেশনের মাধ্যমে একটি পুত্র সন্তান জন্ম গ্রহণ করেছে। বাচ্চাটির মাথায় চাড়া না-থাকার কারণে মগজের কিছু অংশ বাহিরে বের হয়ে আছে। মগজের উপরে শুধু একটি আবরণের মতো দেখা যাচ্ছে।  

বাচ্চাটি এখনো বেচে আছে কিন্তু কিছুই খায়না।  বাচ্চটির পিতা মোঃ জহির আকনের কাছে জানতে চাইলে,তিনি বলেন মহান আল্লাহর উপারে-তো কারো হাত নাই। আমি একজন সামান্য সবজি বিক্রতা আমার  সামর্থ্য অনুযায়ী চিকিৎসা করার জন্য আপ্রান চেষ্টা করিতেছি।

এখন ওর উন্নত চিকিৎসার জন্য অনেক টাকার প্রয়োজন,পারছিনা বাজানের এই কষ্ট সহ্য করতে,পারছিনা কারো কাছে হাত পেতে কিছু চাইতে।

এই অসহায় শিশু সন্তান মোঃ জিহাদের জীবন বাচাতে অর্থ দিয়ে সহায়তা কারার জন্য সবার কাছে বিশেষ ভাবে অনুরোধ রইলো। 

যোগাযোগ জন্য ফোন নাম্বার 01937-823581, মোঃ জহির আকন।

আশাশুনিতে সাত বছরের কন্যা শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় থেকে গ্রেপ্তার

 আশাশুনিতে সাত বছরের কন্যা শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় থেকে গ্রেপ্তার

আহসান উল্লাহ বাবলু আশাশুনি সাতক্ষীরার প্রতিনিধি ঃ সাতক্ষীরার আশাশুনিতে সাত বছরের কন্যা শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি তরিকুল ইসলামকে (১৮) ভারতে পালিয়ে যাওয়ার প্রাক্কালে সুন্দরবন এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সি আইডি)।গ্রেপ্তারকৃত তরিকুল ইসলাম আশাশুনি উপজেলার শ্রীউলা ইউনিয়নের নাসিমাবাদ গ্রামের শিহাবুর রহম নের ছেলে। বর্তমানে তিনি ভারতে থাকেন।বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে দশটায় সাতক্ষীরার সিআইডি’র বিশেষ পুলিশ সুপার আনিচুর রহমান তার কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে বলেন, বারবার স্থান বদল শেষে শিশু ধর্ষণে অভিযুক্ত তরিকুলকে ভারতে যাওয়ার প্রাক্কালে সুন্দরবন এলাকা থেকে গোন সংবাদের ভিত্তিতে গ্রেপ্তার করা হয়।বুধবার রাত রাত ১২ টায় সুন্দরবন সংলগ্ন শ্যামনগর উপজেলার পূর্ব কাশিমাড়ি গ্রাম সিআইডি’র দুটি টিম অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

আজ বৃহস্পতিবার তরিকুলকে আশাশুনি থানায় হস্তান্তর করা হবে বলে তিনি জানান।পুলিশ সুপার আনিচুর রহমান জানান, গত সোমবার দ্পুুর ২টার দিকে এই তরিকুল মোবাইলে ছবি দেখানোর কথা বলে ওই কন্যা শিশুকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে বলে তার মা মামলায় অভিযোগ করেন। সোমবার রাতে আশাশুনি থানায় মামলা দায়েরের পর মঙ্গলবার শিশুটি আদালতে ২২ ধারায় জবানবন্দি দেয়।এরপর সিআইডি শিশু ধর্ষণে অভিযুক্ত যুবককে গ্রেপ্তার করতে সর্বোচ্চ গোপনীয়তায় অভিযান চালাতে থাকে। গ্রেপ্তার হওয়ার পর তরিকুল সিআইডি’র প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার অপরাধের কথা স্বীকার করেছেন।

সাতক্ষীরায় বিজিবির অভিযানে পাথরের ট্রাক থেকে ফেন্সিডিল উদ্ধার গ্রেপ্তার-১

 সাতক্ষীরায় বিজিবির অভিযানে পাথরের ট্রাক থেকে ফেন্সিডিল উদ্ধার গ্রেপ্তার-১

আজহারুল ইসলাম সাদী, স্টাফ রিপোর্টারঃ সাতক্ষীরায় বিজিবির অভিযানে পাথর বোঝাই ট্রাকসহ ৯১ বোতল ফেন্সিডিল আটক করেছে বিজিবি। বুধবার রাত সাড়ে ১২টার সময় ভোমরা বিওপি’র টহল কমান্ডার হাবিলদার মোঃ শহিদুল ইসলাম এর নেতৃত্বে  অভিযানে উক্ত পেন্সিডিল আটক করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতের নাম জহরুল মন্ডল (২৪)। সে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের উত্তর চব্বিশ পরগনা জেলার ইটিন্ডা আথাপুরপূর্ব গ্রামের আব্দুস সামাদের ছেলে। 

বিজিবি জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিজিবি সদস্যরা ভোমরার সীমান্ত পিলারের ৩ হতে আনুমানিক ১ কিলোমিটার বাংলাদেশের অভ্যন্তরে ভোমরা স্থল বন্দর পাঁকা রাস্তার উপর অভিযান পরিচালনা করে উক্ত মালামাল আটক করা হয়। এব্যাপারে থানায় মামলা হয়েছে।

দলীয় সমর্থনে পটিয়া পৌর কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করতে চায় যুবলীগ নেতা আবু তৌহিদ

 দলীয় সমর্থনে পটিয়া  পৌর কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করতে  চায় যুবলীগ নেতা আবু তৌহিদ

পটিয়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ-  চট্টগ্রামের  পটিয়া পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড একটি ভিআইপি ওয়ার্ড। এ ওয়ার্ডে অবস্থিত পটিয়া সরকারি কলেজ, পটিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়, এ. এস. রাহাত আলী উচ্চ বিদ্যালয়, মোহছেনা মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, হযরত মুকবুল শাহ (রাঃ) মাজার শরীফ সহ অসংখ্য জ্ঞানীগুনি শিক্ষাবিদ রাজনৈতিক নেতা ব্যাবসায়িসহ সরকারি -বেসরকারি নেতাদের বাসস্থান। বর্তমান সরকার আমলে এ ওয়ার্ডে  বিভিন্ন ক্ষেত্রে উন্নয়ন হলেও  সাধারণ সেবা নিশ্চিত করতে  আসন্ন নির্বাচনে ৫ নম্বর ওয়ার্ডে দলীয় সমর্থনে  কাউন্সিল পদে নির্বাচন করতে আগ্রহী  পটিয়া পৌরসভার আওয়ামী যুবলীগ সহ প্রচার উপ-সম্পাদক ও ৫ নং ওয়ার্ড যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক আবু তৌহিদ। পটিয়া পৌরসভার ৫ নং ওয়ার্ডের  অধিবাসী 

পৌর যুবলীগ নেতা আবু তৌহিদ  জানান, লোকজনের মধ্যে সাধারণ সেবা নিশ্চিত করতে আসন্ন পটিয়া পৌরসভা নির্বাচনে দলীয় সমর্থনে প্রতিদ্বন্ধিতা করে কাউন্সিলর হতে চায় । পটিয়ার এমপি জাতীয় সংসদের মাননীয়  হুইপ আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরী নির্দেশে দীর্ঘদিন  সামাজিক ও  

 রাজনৈতিকভাবে  মাঠে ময়দানে কাজ করেছি। এর আগেও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করতে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশি ছিলাম। দলের সিদ্ধান্ত মেনে নির্বাচন করেনি আবু তৌহিদ। তিনি বলেন,  দল যদি চায় নির্বাচন করতে প্রস্তুত রয়েছি। দলীয় সিদ্ধান্ত চুড়ান্ত। আবু তৌহিদ জানান,  সেবা করার আশাবাদ ও মানসিকতা নিয়ে   দারিদ্রদের মধ্যে জিনিস পত্র বিতরণ কিংবা দরিদ্র জনগোষ্ঠীকে সঠিকভাবে মূল্যায়ন করতে  তিনি নির্বাচন করতে আগ্রহী।  তিনি যদি নির্বাচন করে  বিজয়ী হলে  লোকজন আর্থিক, মানসিক যে কোন  হয়রানি থেকে মুক্তি পাবে এবং জনগণকে সঠিকভাবে মূল্যায়ন করা হবে  এবং   কোনো প্রকার স্বজনপ্রীতি করা হবে না বলে তিনি জানান। আবু তৌহিদ বলেন,জাতীয় সংসদের হুইপ আলহাজ সামশুল হক চৌধুরীর সহযোগিতায় পটিয়া পৌরসভার দুই বার নির্বাচিত মেয়র অধ্যাপক হারুনুর রশিদ এলাকায় অনেক উন্নয়ন কাজ করেছেন।এই ধারাবাহিকতা অব্যহত রাখতে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার আহবান জানান পটিয়া পৌরসভা যুবলীগ সহ প্রচার উপ- সম্পাদক ও ৫ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ আবু তৌহিদ।  

নারী ও শিশু নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেন ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি

 নারী ও শিশু নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন  করেন ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি

খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার, খুলনা ব্যুরো প্রধানঃ দেশব্যাপী নারী ও শিশু নির্যাাতনের প্রতিবাদে বৃহস্পিবার সকালে ঝিনাইদাহ জেলা বিএনপি উদ্যেগে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেন। কর্মসূচিতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক ঝিনাইদহ জেলা জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সভাপতি ও আইনজীবী সমিতির একাধিকবার নির্বাচিত সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক, ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি'র আহবায়ক, বীর মুক্তিযোদ্ধা,অধ্যক্ষ, জননেতা এ্যাডঃ এম এম মশিয়ুর রহমান, 

প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,ঝিনাইদহ ২ আসনের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বিএনপি মনোনীত প্রার্থী, হরিনাকুণ্ডু উপজেলা পরিষদের সাবেক সুযোগ্য সফল চেয়ারম্যান, সাবেক ছাত্রনেতা ও জেলা বিএনপির সদস্য সচিব, জননেতা আলহাজ্ব এ্যাডঃ এম এ মজিদ। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ঝিনাইদহ জেলা বিএনপি'র যুগ্ম আহবায়ক মোঃ আক্তারুজ্জামান, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক, মোঃ জাহিদুজ্জামান মনা,  জেলা বিএনপি'র যুগ্ম আহবায়ক, এ্যাডঃ মোঃ কামাল আজাদ পান্নু , জেলা বিএনপি'র যুগ্ম আহবায়ক, মোঃ আব্দুল মজিদ বিশ্বাস (ছোট মজিদ) সহ বিএনপি ও সকল অঙ্গওসহযোগী সংগঠনের অগনিত নেতৃবৃন্দ।

দেশের প্রথম অনলাইন প্লাটফর্ম বিডিস্টল এর ১০ বছর উদযাপন

দেশের প্রথম অনলাইন প্লাটফর্ম বিডিস্টল এর ১০ বছর উদযাপন


 যদি কেউ চায়, তারা সম্ভবত এটি পায়- আর এটি বাংলাদেশ ভিত্তিক ই-কমার্স স্টোর, বিডিস্টলের ব্যবসার প্রথম দশকের অনেক ঘটনাগুলির মধ্যে অন্যতম একটি অসাধারণ ঘটনা।

এই লিগ্যাসি সবই ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর একটি ওয়েবসাইট এবং বেশ কিছু ইলেকট্রনিক্স বিক্রির দিয়ে শুরু হয়েছিল। এটি একটি বিশাল ঝুঁকি ছিল। পরিসংখ্যানে দেখা যায় যে সমস্ত ই-কমার্স স্টোরের ৪০% ব্যর্থ হয়। সুতরাং, বিডিস্টল ডট কমকে কেবল টিকে থাকার জন্য নয়, শেষ পর্যন্ত সাফল্যে পৌঁছে যাবার লড়াই করতে হয়েছে। 

 

মাস্টারমাইন্ডদের মতে এই প্রচেষ্টার পিছনের শক্তি "বৈচিত্র্যই সব কিছু।" বছরের পর বছরগুলিতে তারা যত বেশি আইটেম বিক্রি করত, তত বেশি আইটেম মজুদ করত। অনলাইন শপটি জায়ান্টদের সাথে পাল্লা দিচ্ছিল, যদিও তাদের তেমন কোন বিনিয়োগ ছিল না।

 

বিডিস্টলের স্টক আপাতদৃষ্টিতে অন্তহীন। কম্পিউটার, টেলিভিশন, সেল ফোন এবং এমনকি আসবাব - সকল জিনিস এই ওয়েবসাইটটিতে রয়েছে আর তাদের গ্রাহকরা এটি জানেন। বিডিস্টল ডট কম ধারাবাহিকভাবে গ্রাহক পরিষেবা, অপরাজেয় দাম এবং অবশ্যই পণ্য সরবরাহ করে তাদের গ্রাহকের বিশ্বাস অর্জন করেছে।


বিডস্টল ডটকমের প্রতিনিধি বলেছিলেন, "আমরা কখনই মানকে ত্যাগ করি না“ । দশ বছর পরে সংস্থাটি ব্যবসায়িক অনুশীলন এবং নীতিশাস্ত্রে তাদের উৎসাহের পুরষ্কার সংগ্রহ করছে। তারা বেশ কয়েকটি আমদানিকারক এবং খুচরা বিক্রেতাদের সাথে কাজ করে এবং বড় বিনিয়োগকারীদের সাথে প্রতিযোগিতা করে বাজার ভাগ করে নিয়েছে। এবং, তারা এটি সমস্ত পুরানো ধাঁচে করেছে - কেবল তাদের প্রতিভা, কঠোর পরিশ্রম এবং সততা ব্যবহার করে মানুষের বিশ্বাস অর্জন করে।

 

বিডিস্টল ডটকম এখান থেকে কোথায় যাবে? "আমরা আরও বড় বিনিয়োগের জন্য প্রস্তুত হওয়ার পাশাপাশি স্থানীয় ই-কমার্স ব্যবসায়ের জন্য একটি দৃষ্টান্ত স্থাপন করার পরিকল্পনা করছি," সংস্থার এক মুখপাত্র মন্তব্য করেছেন। তাদের সফল ট্র্যাক রেকর্ড থেকে বিচার করলে মনে হয় আকাশ হল বিডিস্টল ডট কমের সীমানা।

আপনার জন্য তাদের স্টোরে কি রয়েছে তা জানতে দেখুন Bdstall (https://www.bdstall.com/)

পুলিশের ভুলের কারণে হয়রানির শিকার হল বান্দাইখাড়া (লগিপুর) এর শারমিন সোমা

 পুলিশের ভুলের কারণে হয়রানির শিকার হল বান্দাইখাড়া (লগিপুর) এর শারমিন সোমা

মোঃ রবিউল ইসলাম, মান্দা, নওগাঁঃ ২০১৮ সালে মোঃ রহিদুল ইসলাম (ওইদুল) পিতাঃ মৃত আনিছার রহমান, গ্রাম-ধনপাড়া (মোল­াপাড়া) ডাকঘর মিরাট, থানা-রানীনগর, জেলা-নওগাঁ। সে বাদী হয়ে মোছাঃ শারমিন আরা সুমি (জেমি) স্বামী-মোঃ রবিউল ইসলাম, সাং-বান্দাইখাড়া কসবা, ডাকঘর-বান্দাইখাড়া, থানা-আত্রাই, জেলা-নওগাঁ। এদের আসামী বানিয়ে মোকাম-বিজ্ঞ সিনি: জুডি: ম্যাজি: ও আমলী -১আদালত, নওগাঁতে মামলা দায়ের করেন। সেখানে নামের অনেক তফাৎ থাকার পরেও আত্রাই তানার ওযারেন্ট অফিসার মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান ওয়ারেন্ট এর কাগজ হাতে নিয়ে স্বদলবলে হাজির হয়ে সোমা শারমিন স্বামী -মোঃ রবিউল ইসলাম,গ্রাম বান্দাইখাড়া (লগিপুর) কে শারমিন আরা সুমি বানিয়ে গ্রেফতার করার জন্য হাজির হয়। গ্রামের লোকজন হাজির হলে তারা সকল কিছু শোনার পরেও জামিনের জন্য হুমকি দিয়ে বলে যায়, অফিসার বলে যে তোমরাই আসল আসামী, তখন তারা নুরপায় হয়ে নওগাঁ কোটে গিয়ে নকল তুলে দেখে তাদের নামে কোন মামলা নেই যার ঘটনা বাংলাদেশের দ্বিতীয় জাহালমের জন্ম দেয়। এই অভাবের দিনে এই হয়রানী আর অর্থের খরচ এর দায় ভার কে নিবে ? এলাকার মানুষের দাবি পুলিশ যেন পুরো তদন্ত ছাড়া কোন মানুষকে হয়রানির শিকার না বানায় এটাই সকলের দাবি।

মাসিক বেতন নয়, বিলম্ব ফি মওকুফ করলেন জবি প্রশাসন

 মাসিক বেতন নয়, বিলম্ব ফি মওকুফ করলেন জবি প্রশাসন




জবি প্রতিনিধিঃ

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) শিক্ষার্থীদের বিলম্ব ফি মওকুফ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে জানান বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বুধবার (৭ অক্টোবর) বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ ওহিদুজ্জামান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়। এর আওতায় চলতি বছর মার্চ থেকে ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের বিলম্ব ফি মওকুফ হবে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, এতো দ্বারা সংশ্লিষ্ট সকলের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি বিবেচনায় মার্চ, ২০২০ হতে ডিসেম্বর, ২০২০ পর্যন্ত স্নাতক (সম্মান) ও স্নাতকোত্তর শ্রেণির শিক্ষার্থীদের সকল প্রকার বিলম্ব ফি মওকুফ করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী মোঃ ওহিদুজ্জামান জানান, পরবর্তী সেমিস্টারে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ভর্তি না হতে পারলে যে ফি টা জরিমানা হিসেবে দেয়া লাগতো সেটা মার্চ ২০২০ থেকে ডিসেম্বর ২০২০ সময়কালীন সময়ে দেয়া লাগবে না। তবে মাসিক বেতন মওকুফ করা হয় নি।

উল্লেখ্য যে, এক সেমিস্টার থেকে অন্য সেমিস্টারে ভর্তি হওয়ার জন্য নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পরবর্তী সেমিস্টারের ভর্তি ফি জমা দিতে হয়। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে ফি জমা দিতে না পারলে সময় অতিক্রান্তের পর দিন থেকে পরবর্তী ত্রিশ (৩০) দিন ১০০ টাকা হারে প্রতিদিন জরিমানা হিসেবে যুক্ত হয় এবং এই ত্রিশ দিনের পর প্রতিদিন ১০০০ টাকা হারে জরিমানা যুক্ত হতে থাকে। জরিমানার পরিমাণ বেশি হয়ে গেলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কিংবা বিভাগীয় চেয়ারম্যানদের বিগত সময়ে মওকুফ করে দেয়ার সুযোগ থাকলেও বর্তমানে রূপালী ব্যাংকের মোবাইল ব্যাংকিং শিওর ক্যাশের মাধ্যমে ফি জমা নেয়া শুরু হওয়ায় শিক্ষার্থীদের জন্য সেই সুযোগটি থাকছে না।

ধর্ষণের বিরুদ্ধে জেলা বিএনপির উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ

 ধর্ষণের বিরুদ্ধে জেলা বিএনপির  উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ

ডা.এম.এ.মান্নান, টাংগাইল জেলা প্রতিনিধি: সারা দেশে অব্যাহত হারে বৃদ্ধি পাওয়া ধর্ষণ, গণধর্ষন, নারীর প্রতি সহিংসতাসহ সকল প্রকার সামাজিক অনাচারের বিরুদ্ধে ও দোষীদের গ্রেফতার করে শাস্তির দাবীতে বিএনপির কেন্দ্রের কর্মসৃচীর অংশ হিসাবে  বিক্ষোভ মিছিল সহ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেছে টাংগাইল জেলা বিএনপি। 

আজ বৃহস্পতিবার ,০৮অক্টোবর সকালে টাংগাইল শহরের প্রধান প্রধান ফটকের সামনে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজন করে টাংগাইল জেলা বিএনপি। 

এছাড়াও বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশে বিএনপি নেত্ববৃন্দরা  সারাদেশে ধর্ষনের ঘটনায় তীব্র নিন্দা প্রতিবাদ জানায় এবং দোষীদের গ্রেফতার করে কঠোর শাস্তি দেওয়ার দাবী জানান। 

বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপি,ছাত্রদল,যুবদল,শ্রমিকদল ও মহিলা দলের নেত্ববৃন্দ।

ধর্ষণের বিরুদ্ধে নাগরপুরে সাধারন ছাত্র-ছাত্রীদের উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল

 ধর্ষণের বিরুদ্ধে নাগরপুরে সাধারন ছাত্র-ছাত্রীদের উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল

হাসান সাদী, নাগরপুর প্রতিনিধিঃ সারা দেশে অব্যাহত হারে বৃদ্ধি পাওয়া ধর্ষণ, গণধর্ষন, নারীর প্রতি সহিংসতাসহ সকল প্রকার সামাজিক অনাচারের বিরুদ্ধে ও দোষীদের গ্রেফতার করে শাস্তির দাবীতে  বিক্ষোভ মিছিল সহ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করেছে নাগরপুরের সাধারন ছাত্র-ছাত্রী সমাজ। 

আজ বৃহস্পতিবার ,০৮অক্টোবর সকাল ৯.৩০ টায় নাগরপুর সরকারি কলেজ গেট থেকে শুরু করে নাগরপুরের প্রধান প্রধান ফটকের সামনে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজন করে নাগরপুর সাধারন ছাত্র-ছাত্রী সমাজ। 

এসময় কর্মসূচিতে একাত্মতা প্রকাশ করে অংশগ্রহণ করেন পথচারীরাও।

এছাড়াও বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশে সাধারন ছাত্র-ছাত্রীরা  সারাদেশে ধর্ষনের ঘটনায় তীব্র নিন্দা প্রতিবাদ জানায়৷ এছাড়া ধর্ষকদের প্রকাশ্যে ফাঁসি দেয়া সহ দেশে সব ধর্ষন মামলার রায় দ্রুত নিষ্পত্তি ও ধর্ষনের মামলা রায় দ্রুত দেয়ার জন্য বিশেষ ট্রাইবুনাল গঠনের দাবি জানান।

মোংলা পোর্ট পৌরসভায় নিবার্চনে দলীয় মনোনয়ন পেতে আওয়ামী লীগের ৫, বিএনপির ১ ও স্বতন্ত্র ১ প্রার্থীর দৌড়ঝাঁপ

মোংলা পোর্ট পৌরসভায় নিবার্চনে দলীয় মনোনয়ন পেতে আওয়ামী লীগের ৫, বিএনপির ১ ও স্বতন্ত্র ১ প্রার্থীর  দৌড়ঝাঁপ

মোঃ এরশাদ হোসেন রনি, মোংলাঃ মোংলা পোর্ট পৌরসভার সর্বশেষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় ২০১১ সালে। এরপর নিয়ম অনুযায়ী ২০১৬ সালে নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ হলেও সে সময়ে সীমানা জটিলতা মামলায় স্থগিত হয়ে যায় সেবারের নির্বাচন। সেই সীমানা জটিলতা দূর হয়ে এখন চলছে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম। এরপর যে কোন সময় হতে পারে পৌর নির্বাচন। তাই আসছে নির্বাচনকে সামনে রেখে পৌর মেয়র প্রার্থী হতে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার আশায় সকলে দেঁৗড়ঝাপ শুরু করেছেন। বিভিন্ন দলের সম্ভাব্য এ সকল প্রাথর্ীরা যে যার মত লবিংগ্রুপিং চালিয়ে যাচ্ছেন। দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার ক্ষেত্রে মাঠ পযার্য়ের নেতা-কমর্ীসহ হাইকমান্ডের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করেছে চলেছেন প্রাথর্ীরা। এলাকায় চালাচ্ছেন প্রচারণাও। তবে এ প্রচারণা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেই বেশি দেখা যাচ্ছে। এর মধ্যে আবার কেউ কেউ এলাকায় জনসমর্থন জোগাতে প্রচারণাও চালাচ্ছেন। প্রচারণার অংশ হিসেবে অনেকে সামাজিক কর্মকান্ডের মধ্যদিয়ে নিজেকে জানান দেয়ারও চেষ্টা করছেন। 

এখন পর্যন্ত মাঠে আওয়ামী লীগেরই ৫ জন প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। তাদের মধ্যে রয়েছেন বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিস আলী ইজারাদার, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি, বাগেরহাট জেলা পরিষদের সদস্য ও মোংলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার শেখ আব্দুর রহমান, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব শেখ কামরুজ্জামান জসিম, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও মিঠাখালী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইস্রাফিল হাওলাদার এবং উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো: ইকবাল হোসেন। 

এদিকে বিএনপি থেকে মাত্র একজন প্রার্থীরই নাম শোনা যাচ্ছে তিনি হলেন বর্তমান পৌর মেয়র আলহাজ্ব মো: জুলফিকার আলী। আলহাজ্ব মো: জুলফিকার আলী পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক। তার দল থেকে আর কোন সম্ভাব্য প্রাথর্ী না থাকায় তিনিই পৌর মেয়র প্রাথর্ী হিসেবে অন্য দলের দিক দিয়ে খুবই সুবিধাজনক অবস্থায় রয়েছেন। ২০১১ সালে জুলফিকার আলী মেয়র নিবার্চিত হওয়ার পর মাঝে সীমানা জটিলতার মামলার কারণে আর নিবার্চন হয়নি। দীর্ঘ ১০ বছর মেয়রের চেয়ারে থাকার সুবাধে তিনি ব্যাপক উন্নয়ন করেছের পৌরসভার সর্বত্র জুড়ে। তার এ উন্নয়নে অভিভূত পৌরবাসী। মেয়র মো: জুলফিকার আলী বলেন, আমি এর আগে বিএনপির একক মনোনীত প্রাথর্ী হিসেবে নিবার্চন করে মেয়র হই। এবারও দল থেকে আমাকেই মনোনয়ন দিবেন। তিনি আরো বলেন, আমি যখন মেয়রের দায়িত্ব নিই তখন পৌরসভা দেনায় জর্জরিত ছিল। রাস্তাঘাট খারাপ ছিল। সকল ধরণের নাগরিক সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত ছিল পৌরবাসী। আমি দায়িত্ব বুঝে নেয়ার পর পৌরসভার সর্বত্র যে আধুনিকতার ছোয়া লাগিয়ে দিয়েছে তাতে পৌরবাসী খুশী মনে আমাকে আবারো ভোট দিয়ে মেয়র নিবার্চিত করবেন বলে আমি আশাবাদী।   

এর আগে ২০১৬ সালে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন পেয়েছিলেন সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ইদ্রিস আলী ইজারদার। তবে সে সময় সামীনা জটিলতার কারণে নিবার্চন স্থগিত হয়ে যায়। মনোনয়ন প্রতাশী ইদ্রিস আলী ইজারদার বলেন, আসছে নিবার্চনেও আবারো তাকে দলের হাইকমান্ড মনোনয়ন দিবেন এমন প্রতাশ্যা তার। তিনি আরো বলেন, ২০১৬ সালে তিনি দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার পর থেকে পৌরসভার সীমানা জটিলতা সংক্রান্ত মামলাসহ অন্যান্য বিষয়েও মোংলা থেকে ঢাকা পর্যন্ত ব্যাপক দৌঁড়ঝাপ করে নিবার্চনের পরিবেশের সৃষ্টি করেছেন। এজন্যও তার অবদানের দাবীদার তিনি।  

পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আ: রহমান বলেন, তৃণমুলের নেতা-কর্মীদের প্রতি আমার আস্থা ও বিশ্বাস আছে। তারা তাদের দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়ে যে সকল সম্ভাব্য প্রার্থীর নাম কেন্দ্রীয় মনোনয়ন বোর্ডে পাঠাবেন এবং মনোনয়ন বোর্ড যাকে চুড়ান্ত প্রার্থীতা দিবেন আমি দলের স্বার্থে তার হয়েই কাজ করবো। আমি না পেলেও দলের সিদ্ধান্ত মেনে নিবো। তিনি আরো বলেন, মোংলা-রামপালের উন্নয়নের কারিগর আমাদের রাজনৈতিক অভিভাবক খুলনা সিটি মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক ও স্থানীয় সাংসদ উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহারের সিদ্ধান্তের উপর আমরা সকলেই আস্থাশীল। তারা যে সিদ্ধান্ত দিবেন তা আমরা নেতা-কর্মীরা ও সমর্থকেরা রাজপথে বাস্তবায়ন করবো ইনশাল্লাহ। 

মনোনয়ন প্রত্যাশী পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব শেখ কামরুজামান জসিম পৌরসভার বার বার নিবার্চিত সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম শেখ আ: হাই ও উপজেলা পরিষদের বার বার নিবার্চিত ভাইস চেয়ারম্যান কামরুন নাহার হাইর বড় ছেলে।এছাড়া মোংলা উপজেলায় একজন করোনা যোদ্ধা হিসাবেও পরিচিত তিনি।করোনার দিনরাত মানুষের পাশে থেকে কাজ করে গেছেন।  পিতা মাতার সফল নেতৃত্বের উত্তরসূরী হিসেবে শেখ কামরুজ্জামান জসিমেরও এলাকা জুড়ে রয়েছে ব্যাপক জনপ্রিয়তা। আলহাজ্ব শেখ কামরুজ্জামান জসিম বলেন, পৌর মেয়র হিসেবে আমি দলের কাছে মনোনয়ন চাইবো।তৃনমূলের নেতা কর্মীদের প্রতি আমার আস্হা ও বিশ্বাস রয়েছে। আমার প্রিয় নেতা ও অভিভাবক খুলনা সিটি মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক এবং স্থানীয় সাংসদ উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার যে সিদ্ধান্ত দিবেন সেটি মেনে নিয়েই আমি কাজ করবো।  

উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ইস্রাফিল হাওলাদার বলেন, আমি পৌরসভার নিবার্চনে মেয়র প্রার্থী প্রত্যাশী। দলের কাছে মনোনয়ন চাইবো, আমার রাজনৈতিক অভিভাবক মোংলা-রামপালের রুপকার, খুলনা সিটি মেয়র আলহাজ্ব তালুকাদার আব্দুল খালেক এবং মোংলা-রামপালের সংসদ সদস্য হাবিবুন নাহার যে সিদ্ধান্ত দিবেন সেটি মেনে নিবো।

উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো: ইকবাল হোসেন বলেন, দলের কাছে মনোনয়ন চাইবো। খুলনা সিটি কর্পোরেশনের  মেয়র আলহাজ্ব তালুকাদার আব্দুল খালেক এবং মোংলা-রামপালের সংসদ সদস্য হাবিবুন নাহার যে সিদ্ধান্ত দিবেন সেটি মেনে নিবো। মনোনয়ন দিলে দলের সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে নিবার্চন করবো। 

সর্বশেষ স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নাম শোনা যাচ্ছে মোংলা বন্দরের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, সমাজ সেবক ও মোংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আলহাজ্ব এইচ এম দুলালের। ত

যশোরে এক গৃহবধুকে ব্লাক মেইল করে তিনবছর ধরে ধর্ষণ

যশোরে এক গৃহবধুকে ব্লাক মেইল করে তিনবছর ধরে ধর্ষণ

সুমন হোসেন, যশোর জেলা প্রতিনিধিঃ যশোরের রূপদিয়ার শাখারগাতি এলাকার হিরো কোম্পানির প্রোডাক্ট ইনচার্জ আব্দুল মান্নানের বিরুদ্ধে এক গৃহবধূকে ব্লাকমেইল করে তিন বছর ধরে ধর্ষণ করার গুরুতর অভিযোগ উঠেছে। ওই নারীর সাথে তার প্রথমে ফেসবুকে পরিচয়। এরপর বাড়িতে অনুষ্ঠানের কথা বলে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ এবং সেই দৃশ্যের ভিডিও ধারণ করে নিয়মিত বিভিন্ন এলাকায় নিয়ে ধর্ষণ করেন মান্নান। বর্তমানে তিনি ওই গৃহবধূর ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে টাকা দাবি করছেন। অন্যথায় তাকে হত্যা করা হবে বলে হুমকি দিচ্ছেন তিনি। এ কারণে বাধ্য হয়ে ওই নারী তার শিশু সন্তানকে নিয়ে মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন। প্রতিকারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী।

 রূপদিয়া এলাকার ওই নারী জানান, তিন বছর আগে মান্নানের সাথে তার ফেসবুকে পরিচয় হয়। এরপর কথা হতে থাকে। এরমধ্যে তাকে মান্নান তার ভাড়া বাড়ি আরবপুর এলাকার হক মঞ্জিলের চার তলায় নিয়ে যান একটি অনুষ্ঠানের কথা বলে। সেখানে গিয়ে দেখেন মান্নান ছাড়া বাড়িতে কেউই নেই। সেখানে ওই নারীকে ধর্ষণ করেন মান্নান। একইসাথে ধর্ষণের দৃশ্য মোবাইল ফোনে ধারণ করেন। এরপর মান্নান তার লালসা চরিতার্থ করতে থাকেন। ধারণ করা ভিডিওর ভয় দেখিয়ে কয়েকদিনের মাথায় ওই নারীকে ফের আসতে বলেন মান্নান। তার কথায় রাজি না হলে ভিডিও ফেসবুক, ইন্টারনেটে প্রচারসহ স্বামীর কাছে পৌঁছে দেওয়ার ভয় দেখানো হয়। এরপর ওই গৃহবধূর মাথায় ক্যাপ ও গায়ে গেঞ্জি পরিয়ে ছেলে সাজিয়ে গাড়িতে করে বসুন্দিয়ার শাখারগাতির হিরো কোম্পানির রেস্ট হাউজে নিয়ে যান মান্নান। সেখানে নিয়ে তিন ঘণ্টার মধ্যে একাধিকবার ধর্ষণ করেন তিনি। এক পর্যায়ে ওই নারী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে গাড়িতে করে বাড়ির সামনে নামিয়ে দেন। কয়েক মাস পর কক্সবাজারে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে। রাজি না হলে গৃহবধূর শিশু সন্তানকে অপহরণের চেষ্টা চালান কুখ্যাত এই মান্নান। বাধ্য হয়ে ওই নারী রাজি হলে কক্সবাজারের এশিয়া হোটেলে তিনদিন রেখে ধর্ষণ করেন। সেখান থেকে যশোরে ফিরে এসে কয়েকদিনের মাথায় তাকে আবার কুয়াকাটায় নিয়ে যান মান্নান।

গত তিন বছরে তার ভাড়া করা ফ্ল্যাট ও কোম্পানির রেস্ট হাউজ এবং যশোরের বিভিন্ন আবাসিক হোটেলে নিয়ে অসংখ্যবার ধর্ষণ করেন বলে ওই নারীর অভিযোগ। সর্বশেষ, গত ২৬ জুলাই তাকে কোম্পানির রেস্টহাউজে নিয়ে তিনদিন আটকে রাখেন। এসময় মান্নানের সাথে তার আরেক সহযোগী খালিদও তাকে ধর্ষণ করে বলে জানান ওই নারী। পরে বিষয়টি কোম্পানির ভিতরে জানাজানি হয়ে যায়। একপর্যায়ে খাবারের মধ্যে বিষ মিশিয়ে তাকে হত্যার চেষ্টা করেন মান্নান ও খালিদ। তখন হাতেপায়ে ধরে কোনো রকমে চলে আসেন তিনি।

এরপর থেকে ওই গৃহবধূ মান্নানের ডাকে আর সাড়া দেননি। কিন্তু মান্নান কোনোমতেই তা মানতে নারাজ। ওই অফিসের রাজু নামের এক কর্মচারীকে প্রতিনিয়ত গৃহবধূর বাড়ি পাঠাচ্ছেন মান্নান। বাড়ি থেকে রাজু গৃহবধূর মোবাইল ফোন ও সিমসহ বিভিন্ন মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে গেছেন। এখন ওই গৃহবধূ ঘর ছেড়ে বিভিন্ন দপ্তরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। এর মধ্যে তাকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি। এ অবস্থায় স্বামী, সন্তান নিয়ে বাঁচতে সকলের সহযোগিতা কামনা করেছেন ওই নারী।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ যশোর জেলা শাখার লিগ্যাল এইড সম্পাদক অ্যাডভোকেট কামরুন নাহার কণা জানান, ওই গৃহবধূ তাদের কাছে এসেছিলেন। অভিযোগও দিয়েছে। ওই গৃহবধূ তাদেরকে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে জানিয়েছেন। সেক্ষেত্রে মহিলা পরিষদের পক্ষ থেকে মামলাসহ সকল ধরনের সহযোগিতা করার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে বলে জানান কণা। এ বিষয়ে আব্দুল মান্নান বলেন, তিনি ওই গৃহবধূকে চেনেন। কিন্তু এক পক্ষের অভিযোগ শুনে কিছু বিবেচনা করা যাবে না। এ বিষয়ে কথা বলতে হলে সামনাসামনি হতে হবে। তার অফিসে যাওয়ার কথা বলেন মান্নান। এরপর ব্যস্ত আছি বলে লাইন কেটে দেন।

উল্লেখ্য, কয়েক বছর আগে শাখারগাতি হিরো মোটরসাইকেল কোম্পানি থেকে বিভিন্ন মালামাল চুরি, টাকা নিয়ে অদক্ষ জনবল নিয়োগ এবং ফ্যাক্টরির ভিতরের বিভিন্ন পণ্য আত্মসাতের অভিযোগ ওঠে আব্দুল মান্নানের বিরুদ্ধে। এ বিষয়ে বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় সংবাদ প্রকাশিত হয়। কিন্তু অজ্ঞাত কারণে তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয় না।

সাংবাদিক মোঃ রশিদুল ইসলাম রিপন এর ২০ তম শুভ জন্মদিন আজ

সাংবাদিক মোঃ রশিদুল ইসলাম রিপন এর ২০ তম শুভ জন্মদিন আজ

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ সাংবাদিক মোঃ রশিদুল ইসলাম রিপন এর ২০ তম শুভ জন্মদিন আজ।তিনি লালমনিরহাট  জেলার কৃতি সন্তান। লেখাপড়ার পাশাপাশি সাংবাদিকতা ও একজন মানব সেবক ও বটে।

তিনি অন্যায়গুলো তুলে ধরার লক্ষ্যে, সমাজের সাধারণ মানুষের কথা দেশ ও জাতির কাছে তুলে ধরার লক্ষ্যে সাংবাদিকতা করে আসছেন।

বর্তমানে তিনি বহুল প্রচারিত মুক্ত বাংলা অনলাইন টিভি ও কপোতাক্ষ নিউজ, লালমনিরহাট  প্রতিবেদক হিসেবে কর্মরত আছেন।

সাংবাদিক “ রিপন” বলেন, প্রথমে শুকরিয়া আদায় করি মহান আল্লাহর নিকট যার রহমতে অনেক ভালো আছি। যতদিন বেচেঁ আছি মানব সেবার কাজে নিয়োজিত থাকব।অসহায় ও দুস্থ মানুষের পাশে থাকব।এবং আমার সকল স্বপ্নকে পূরণ করব।

মুক্ত বাংলা টিভির শুরু থেকেই তিনি লালমনিরহাট  প্রতিবেদক’ হিসেবে কাজ করছেন।তিনি সমাজ সেবার কাজে নিয়োজিত স্থানীয় বিভিন্ন সংগঠনের সাথে আছেন।ছোটবেলা থেকেই লেখালেখির প্রতি তার অন্যরকম একটা টান ছিল।সেই সাথে ছিল তথ্য প্রযুক্তির যুগে সকল প্রকার বিষয়ে জ্ঞান ধারণ করা।

তার জন্মদিন উপলক্ষে মুক্ত বাংলা মিডিয়া লিমিটেড ও বিশ্ব মানব কল্যাণ ফোরাম সংগঠন এর সম্মানীয় প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান সোহাগ আলী, লালমনিরহাট  প্রতিবেদক “ রিপন” কে জন্মদিনের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েচ্ছেন। তিনি তার উজ্জল ভবিষ্যত ও মঙ্গল কামনা করে এ শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়েছেন।

এছাড়াও মুক্ত বাংলা টিভির সম্মানীয় প্রধান উপদেষ্টা ও বার্তা প্রধান এবং বিশ্ব মানব কল্যাণ ফোরাম এর কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ইয়াসির আরাফাত মিলন সহ মুক্ত বাংলা মিডিয়া সকল কর্মী “ রিপন” এর জন্মদিনে ফুলের শুভেচ্ছা, ভালোবাসা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।এবং সবাই তার দীর্ঘায়ু,সফলতা ও মঙ্গল কামনা করেছেন।

মাদক ও সন্ত্রাস বিরোধী কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় ব্যবসায়ী শিপুকে হয়রানির অভিযোগ

 মাদক ও সন্ত্রাস বিরোধী কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় ব্যবসায়ী শিপুকে হয়রানির অভিযোগ

সেলিম চৌধুরী, স্টাফ রিপোর্টারঃ- চট্টগ্রামের ব্যবসায়ী ও সাবেক ছাত্র নেতা নুরুল আলম শিপু নগরীর চকবাজার ও পাঁচলাইশ এলাকায় মাদক, সন্ত্রাস বিরোধী কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করায় এলাকার কিছু মাদক, ইয়াবা ব্যবসায়ী ও সন্ত্রাসী চক্র নুরুল আলম শিপুর কর্মকান্ডকে বাঁধাগ্রস্থ করতে বিভিন্নভাবে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর হুমকি, পুলিশ দিয়ে গ্রেফতার করার ভয় দেখান নুরুল আলম শিপু ও তার পরিবারের সদস্যদের। সম্প্রতি নুরুল আলম শিপু এলাকায় মাদক ও জুয়ার বিষয়ে নিয়ে যাতে কোন কথা না বলে বাসায় গিয়ে পুলিশ পরিচয় দিয়ে হুমকি দিয়ে আসেন। এলাকার মাদক ও ইয়াবা ব্যবসায়ীরা পুলিশকে ব্যবহার করে নুরুল আলম শিপুর বিরুদ্ধে লাগিয়ে দেয়ার চেষ্ঠা করেছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে।

জানা গেছে, ব্যবসায়ী নুরুল আলম শিপু একজন চট্টগ্রামের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী। মা-মনি এন্টারপ্রাইজের মালিক, নগরীর বহদ্দারহাট হক মার্টেক ব্যবসায়ী সমিতির উপদেষ্ঠা। দারুচ্ছুন্নাহ হাফেজিয়া মাদরাসা ও এতিমখানার পরিচালক; বহদ্দারহাট হক মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতিসহ, সামাজিক ও অরাজনৈতিক সংগঠন আকাশ তারা সংগঠন, এছাড়া  ইলিয়াছ ব্রাদার্সের দাদা বেভারেজ ও ইফাদ ইন্ডাস্ট্রিজের বিভিন্ন প্রোডাক্টের  ডিলার ব্যবসায়ী। নুরুল আলম শিপু বলেন, আমি এলাকার সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ, মাদক ইয়াবা ব্যবসায়ী, জুয়াড়ীদের বিরুদ্ধে কথাবলি বিভিন্ন সময় প্রতিবাদ জানানোর কারণে তারা আমাকে যে কােন কিছুর বিনিময়ে মুখ বন্ধ করার চেষ্ঠা করছে। আমি এলাকার মানুষকে যতটুকু পারি সহযোগিতা করি। অন্যায় অবিচারের প্রতিবাদ করি, এগুলো অপরাধীদের সহ্য হচ্ছে না, তারা কখেনা পুলিশের ভয় আবার কখেনা মামলার ভয় দেখিয়ে আমার কন্ঠরোধ করার চেষ্টা করছেন।

এ বিষয়ে কাপোসগোলা তিন মহল্লা কমিটির সভাপতি মনজুর আলম বলেন, শিপু হচ্ছে এলাকার একজন প্রতিবাদী যুবক, সে এলাকার যে কোন অন্যায় অবিচারের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করে এবং এলাকার একজন সফল ব্যবসায়ী ও জনপ্রিয় ব্যক্তি, সামাজিক বিভিন্ন কর্মকান্ডের সাথে যুক্ত থেকে সামাজিক কর্মকান্ডে সব সময় সহযোগিতা করেন।

বহদ্দারহাট হক মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ জাবেদ ও সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ খালেদ বলেন, নুরুল আলম শিপু কি দল করে কার ভাই সেটা বড় বিষয় না , তার সাথে সব ব্যবসায়ী ও কর্মচারী সবার সাথে ভাল সর্ম্পক রয়েছে। তার উপর অন‌্যায়ভাবে কিছু করার চেষ্ঠা করলে ব্যবসায়ী সমাজ বসে থাকবে না বলে জানান।

আজ নায়ক জসীমের ২২তম মৃত্যু বার্ষিকী

আজ নায়ক জসীমের ২২তম মৃত্যু বার্ষিকী

 

আর.জে মিজানুর রহমান ইমন নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বাংলা সিনেমায় যুক্ত করেছেন এ্যাকশন দৃশ্য, খলনায়ক থেকে হয়েছেন চিত্র নায়ক জসীম । পেয়েছেন তুমুল জনপ্রিয়তা, ১৯৯৮ সালের (৮ই অক্টোবর) মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণজনিত কারণে তিনি পরলোক গমন করেছেন । আজ (৮ই অক্টোবর) ২০২০ তার ২২তম মৃত্যু বার্ষিকী । 

চিত্র নায়ক জসীম ১৯৫০ সালের ১৪ই আগষ্ট ঢাকার নবাবগঞ্জের বক্সনগর গ্রামে জন্ম গ্রহণ করেন, তার আসল নাম আব্দুল খায়ের (জসীম) । ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নিয়ে দুই নম্বর সেক্টরে মেজর হায়দারের নেতৃত্বে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করেছিলেন চলচিত্র নায়ক জসীম ।

 ১৯৭২ সালে "দেবর" সিনেমার ছবির শুটিং দিয়ে চলচ্চিত্রে পা জসীম । ১৯৭৩ সালে জসীম প্রয়াত জহিরুল হকের "রংবাজ" ছবিতে খলনায়ক চরিত্রে অভিনয় করেন তিনি । এ ছবির অ্যাকশন দৃশ্যগুলোও  ছিল তার নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা জেমস্ ফাইটি গ্রুপের করা । এই ছবিতে জসীম চলচ্চিত্র পরিচালকদের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সক্ষম হলেও মূল পরিচিতি পান, দেওয়ান নজরুল পরিচালিত "দোস্ত দুশমন" চলচ্চিত্রে খল নায়ক চরিত্রে অভিনয় করেন জসীম । 

কয়েক বছর পর, সুভাষ দত্তের পরিচালনায় "সবুজ সাথী" ছবিতে প্রথম নায়ক হিসেবে অভিনয় করেন তিনি ।  এটি জনপ্রিয়তা পাওয়ার পর তিনি খলনায়ক হিসের আর অভিনয় করেন নি । এই চলচ্চিত্রে তিনি নায়ক হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন । আশির দশকের সব জনপ্রিয় নায়িকার বিপরীতে অভিনয় করেছেন অভিনেতা জসীম, তবে শাবানা ও রেজিনার সঙ্গে তার জুটির সবচেয়ে দর্শক প্রিয়তা অর্জন করে । 

জসীম প্রায় দুইশত ছবিতে সিনেমায় অভিনয় করেছেন । তার মধ্যে দর্শকের অনেক বেশি জনপ্রিয়তা ও উল্লেখযোগ্য হলো "তুফান" "জবাব"নাগ-নাগিনী"বদলা" "বারুদ"সুন্দরী"কসাই"লালু মাস্তান"নবাবজাদা"অভিযান"কালিয়া"বাংলার নায়ক"গরীবের ওস্তাদ"ভাই-বোন" মেয়েরাও মানুষ"পরিবার"রাজা বাবু" বুকের ধন"স্বামী কেন আসামী" ছবি সহ আরো অনেক জনপ্রিয়তা ছবিতে অভিনয় করেন চলচ্চিত্র নায়ক জসীম ।

আত্রাইয়ে ক্যান্সার আক্রান্ত রোগির পাশে ডিএসকে ক্রিড়া ও সংস্কৃতি সংস্থা

 আত্রাইয়ে ক্যান্সার আক্রান্ত রোগির পাশে ডিএসকে ক্রিড়া ও সংস্কৃতি সংস্থা

মোঃ ফিরোজ হোসাইন, রাজশাহী ব্যুরোঃ নওগাঁর আত্রাইয়ে শুটকি গাছা ডি,এস,কে, সংস্থার উদ্যোগে ভর তেঁতুলিয়া গ্রামের ক্যান্সার আক্রান্ত রোগী পলাশকে নগদ ৪০,০০০ টাকা প্রদান করা হয়েছে। মোস্তাক আহম্মেদের ব্যবস্থাপনায় ওহিদুর রহমান রহিত, মোঃ টুটুল,মোক্তার হোসেন ও হামিদুর রহমান এর সহযোগিতায় এ অনুদান  প্রদান করা  হয়।

এ সময় ডিএসকে সংস্থার সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন তোতা, সাধারন সম্পাদক রবিউল ইসলাম চঞ্চল, ও সংস্থার সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আত্রাই উপজেলা ছাত্রলীগ এর সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও ডিএসকে সংস্থার সাধারন সম্পাদক রবিউল ইসলাম চঞ্চল জানান, মানুষ মানুষের জন্য এই স্লোগানকে সামনে রেখে ডি,এস,কে সংস্থা বিভিন্ন সময় এলাকার অসহায়, দিনমজুর, খেটে-খাওয়া ও হতদরিদ্রদের সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করে আসছে। আগামীতেও এই সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

শীতকালের আগমনে সবজি চাষে ব্যস্ত কৃষকেরা

 শীতকালের আগমনে সবজি চাষে ব্যস্ত কৃষকেরা

আনিস নাঈমুল, কক্সবাজারঃ কক্সবাজার জেলার বিভিন্ন গ্রামে শীতকালের আগমনে কৃষকেরা অগ্রীম শীতকালীন সবজি চাষ শুরু করেছেন । সে সময় বাজারে মিলবে শীতের নানা সবজি। বিশেষ করে ফুলকপি, বাঁধাকপি, টমেটো,বরবটি, শিম, লাউ, শসা, মুলাসহ শীতকালীন নানা সবজির দেখা পাওয়া যাবে বাজারে। 

এসব সবজি চাষে রামুর চরাঞ্চলে চলছে কৃষকের ব্যস্ততা। সবজি রোপণ ও ক্ষেত পরিচর্যায় কৃষক এখন মাঠেই বেশি সময় পার করছেন। দিনে আবহাওয়া গরম থাকলেও রাত এবং ভোরে কোথাও কোথাও কুয়াশা পড়ে। এছাড়া শীতের হিমেল হাওয়াও অনুভূত হয়। ক’দিন পরই শীতের আগমন ঘটবে।

শীত মৌসুম সামনে রেখে প্রচন্ড গরম ও তাপপ্রবাহ সহ্য করে সদ্য রোপিত সবজি খেতে ব্যস্ত রয়েছেন রামু উপজেলার চরাঞ্চলের ১১ ইউনিয়নের লক্ষাধিক কৃষক। তাদের লক্ষ্য, শীতের শুরুতেই আগাম শীতকালীন ফুলকপি, বাঁধাকপি, টমেটো, বরবটি, শিম, মুলা, শসা, বেগুন, লাউ, ঢ্যাঁরসসহ নানা সবজি বাজারে তুলে বাড়তি মূল্য হাতে পাওয়া। তাই চারা পরিচর্যা, পোকার আক্রমণ ঠেকানোর জন্য কীটনাশক ছিটানো আর খেতের আগাছা পরিষ্কারে লেগে রয়েছেন তারা।

অফিসের চরে এলাকার সিরাজুল ইসলাম বলেন,এবছর তিনি রোপন করছে লাল শাক, মূলাশাক,পালংশাক,বেগুন সহ বিভিন্ন সবজি।

পূর্ব রাজারকুল গ্রামের একাধিক কৃষক জানান, প্রতি বছর তারা শীতের সবজি আবাদে মনোযোগ দেন। সারা বছর ধান বা অন্য ফসল চাষ করে যে আয় হয়, তার চেয়ে বেশি হয় শীত মৌসুমের সবজিতে।

রামু উপজেলার কাউয়ারখোপ,রাজারকুল, গর্জনিয়া বাকঁখালীর খালের পার্শবর্তী জমিতে বালুর আস্তরণের কারণে ধানের ফলন ভালো হয় না। এসব ইউনিয়নের অর্ধশত গ্রামে উৎপাদিত শীতকালীন সবজি কক্সবাজার জেলার চাহিদা মিটিয়ে চট্টগ্রাম, রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় সরবরাহ করা হয়। ফলে প্রতি বছর এসব গ্রামের কৃষক শীতকালীন সবজির ওপর ভরসা করেন।

উমখালি গ্রামের কৃষক শামসুল হক বলেন, আমি ১০ কাঠা জমিতে ফুলকপি আর শিম লাগিয়েছি। খরচ হবে ২০ হাজার থেকে ৩০ হাজার টাকা। সবজি বেচা যাবে লাখ টাকার মতো।

গর্জনিয়া গ্রামের আলী মিয়া বলেন, আমি ১১ কাঠা জমিতে ঝিঙা চাষ করে লোকসান গুনেছি। তাই ওই খেতে এখন শিম আর কপি লাগিয়েছি। ফলন ভালো হলে বাজারে লাখ টাকার সবজি বেচা যাবে।

১৫ অক্টোবরের পর থেকে সবজি চাষের মৌসুম ধরা হলেও চাষিরা এক মাস আগে থেকেই আগাম চাষ শুরু করেছেন।

রামু উপজেলার উপসহকারী কৃষি অফিসার ছোটন কান্তি দে বলেন, আমাদের পরিকল্পনা আছে মসলাজাতীয় ও বিভিন্ন জাতের সবজিসহ  ২১শ হেক্টর মতো, যার উৎপাদন দাড়াবে প্রায় ৩০হাজার মেট্রিকটন।এছাড়াও আরো বৃদ্ধি করার প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

গরীব ও অসহায় কৃষকদের সরকারীভাবে কৃষিউপকরন দেয়ার সহায়তার বিষয়ে জানতে চাইলে জানান, সরকারীভাবে সেরকম কোনো অনুদান আসলে সেটা অবশ্যই কৃষকদের কাছে পৌঁছে দেয়া হবে এবং কয়েকটি  এনজিও সংস্হা প্রজেক্টে কাজ করছে, তারা আমাদের সহযোগিতায় কৃষকদের মাঝে কৃষিসামগ্রী দিচ্ছে।