ওয়াকফ সম্পত্তিতে বেআইনীভাবে সাইনবোর্ড লাগানো প্রমাণ

নারায়গঞ্জ  প্রতিনিধি :সিদ্ধিরগঞ্জ থানাধীন মিজমিজি দক্ষিণপাড়া আজগর আলী ওয়াকফ স্টেট নামে ১৯৯৬ সনে ৫.৬২ একর সম্পত্তি তালিকাভুক্ত হলে তা হতে গত ২২/০৩/২০০০ ইং তারিখে ওয়াকফ প্রশাসকের আদেশে ২.৭৭ একর সম্পত্তি ওয়াক্ফ অধ্যাদেশ ১৯৬২ এর ৫০ ধারার বিধানমতে ওয়াকফ সম্পত্তি হতে অবমুক্ত করা হয়। উক্ত ওয়াকফ সম্পত্তি রক্ষণাবেক্ষণের জন্য ওয়াকফ প্রশাসন কর্তৃক ০২ জন মোতওয়াল্লি নিয়োগ করা হয়। মোতওয়াল্লি নিয়ে বিতর্ক থাকায় ওয়াকিফের ওয়ারিশগণ মোতওয়াল্লি নিয়োগ অবৈধ দাবি করে নারায়ণগঞ্জ জজ কোর্টে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলাটি বর্তমানে চলমান আছে পাশাপাশি একজন মোতওয়াল্লি ও মোতওয়াল্লি নিয়ে দায়ের করা মামলার বাদীও ইতিমধ্যে মৃত্যুবরণ করেছেন এবং একজন মোতওয়াল্লি জীবিত থাকলেও তিনি শয্যাশায়ী।

এমতাবস্থায় স্থানীয় মিজমিজি দক্ষিণপাড়ার কাজেম আলীর ভূইয়ার পুত্র আমিনুল হক রাজু ও তার দলবলসহ উক্ত স্টেটের অবমুক্ত করা ২.৭৭  একর সম্পত্তিসহ ওয়াকফকৃত ২.৮৫ একর সম্পত্তিতে ওয়াকফ প্রশাসনের নাম ভাঙ্গিয়ে একাধিক সাইনবোর্ড স্থাপন করে এবং একটি জায়গায় বালু ভরাট শুরু করে।

এ বিষয়ে ওয়াকিফের ওয়ারিশ বাংলাদেশ ওয়াকফ প্রশাসনের শরণাপন্ন হলে ওয়াক্ফ প্রশাসক জানান, ওয়াকফকৃত কোন সম্পত্তিতে প্রশাসকের অনুমতি ব্যতীত কেউই কোন সাইনবোর্ড স্থাপন, সম্পত্তির পরিবর্তন-পরিবর্ধন করলে তা শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

তিনি এও জানান, সিদ্ধিরগঞ্জ মিজমিজি হাজী আজগর আলী ওয়াকফ স্টেটের সম্পত্তিতে তিনি সাইনবোর্ড লাগাতে কাউকে অনুমতি দেননি। অনুমতি নিয়ে একমাত্র মোতওয়াল্লি অথবা ওয়াকিফের ওয়ারিশগণ ব্যতীত অন্যকেহ এই সম্পত্তিতে কোনকিছু করলে তা ওয়াকফ কর্তৃপক্ষ তদন্ত সাপেক্ষে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন। যার পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৪/১২/২০২১ ইং তারিখে ওয়াকিফের ওয়ারিশ আব্দুল মতিন অবৈধ সাইনবোর্ড স্থাপনের তদন্ত চেয়ে প্রশাসক বরাবর আমিনুল হক রাজুর বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে গত ২১/০১/২০২১ ইং তারিখে ওয়াকফ পরিদর্শক মোঃ রেজাউল করিম সরকার সরেজমিনে উক্ত বিষয়টি তদন্তে আসেন।

তদন্ত শেষে তিনি সংবাদকর্মীদের তাৎক্ষণিক জানান, আমি আব্দুল মতিনের অভিযোগের সত্যতা পেয়েছি। নিজের চোখে অবৈধ সাইনবোর্ডও দেখেছি। আমরা কাউকে সাইনবোর্ড লাগাতে অনুমতি দেইনি। আমি খুব শীঘ্রই আমার তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেব। তারপর কর্তৃপক্ষ অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে যথাযথ শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট