পটিয়ায় ইউপি মেম্বার জাবেদ এর বিরুদ্ধে আওয়ামীলীগ নেতার পরিবারের উপর সন্রাসী হামলার অভিযোগ

পটিয়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ-চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ মোরশেদ উল্লাহ ও তার পরিবারের উপর ন্যাক্কারজনক হামলার অভিযোগ উঠেছে বড়লিয়া ইউনিয়নের মেম্বার জাভেদ সরোয়ারের বিরুদ্ধে। ১৮ এপ্রিল  সোমবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত অভিযোগ পাঠ করেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক। সম্পাদক সৈয়দ মোরশেদ উল্লাহ ও তার পরিবারের সদস্যরা। এসময় উপস্থিত ছিলেন, 

শাহরিয়া শাওন, সৈয়দ শোয়েব উল্লাহ, সৈয়দ এরশাদ উল্লাহ, শহিদুল ইসলাম, মোহাম্মদ করিম, জুয়েল প্রমুখ। সংবাদ সম্মেলনে মোরশেদ উল্লাহ জানান, উপজেলার বড়লিয়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের সৈয়দ বাড়ি এলাকার একটি সামাজিক পুকুর খনন করা হয় স্কেভটর দিয়ে। খনন হওয়া পুকুরের মাটি তুলে পুকুরের পাড় ভরাটের কথা বলে প্রতিরাতে ট্রাক দিয়ে মাটি তুলে বাইরে বিক্রি করে আসছে বড়লিয়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের 

ইউপি মেম্বার জাভেদ সরোয়ার। প্রতিনিয়ত প্রায় ৩শ' ট্রাক ৯শ' টাকা করে বিক্রি করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেয় মেম্বার জাভেদ সরোয়ার। গত ১৭ এপ্রিল রাত আনুমানিক ৯টায় পুলিশ মাটি বিক্রির খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গেলে এর সত্যতা পায় এবং স্কেভটর পুকুর থেকে তুলে দেয়। এর আগেও গত ১০ এপ্রিল পুলিশ এক স্থান থেকে মাটি তুলে বিক্রির করার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা দেখে স্কেভটরের ব্যাটারী খুলে থানায় নিয়ে আসে। গত ১৯ এপ্রিল তার ভাই সৈয়দ শোয়েব উল্লাহ ও সৈয়দ এরশাদ উল-াহকে তার অবৈধ মাটি বিক্রির খবর থানা পুলিশকে খবর দেয়ার 

অভিযোগ তুলে তার ভাইদের উপর অতর্কিত হামলা করে জাভেদ সরোয়ার। এসময় তার সেজ ভাই সৈয়দ শোয়েব উল্লাহ্ কে পায়ে চুরিকাহত করে জাবেদ সরোয়ার। এসময় লাঠি পেঠা করা হয় আরেক ভাই সৈয়দ এরশাদ উল্লাহ । এ  ঘটনায় পটিয়া থানায় ৪ জনের বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট