সিরাজগঞ্জে কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ

সিরাজগঞ্জে কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে সার ও বীজ বিতরণ




মাসুদ রানা সিরাজগঞ্জ  জেলা প্রতিনিধিঃসিরাজগঞ্জ  সদর উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উদ্যোগে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত  ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক আওতায় কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও রাসায়নিক সার বিতরণ কর্মসূচী উদ্বোধন করা হয়েছে।বুধবার  ২ সেপ্টেম্বর  সকালে উপজেলা কৃষি অফিস প্রাঙ্গণে  বীজ ও সার বিতরণী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আনোয়ার  পারভেজ এবং উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ রোস্তম আলী সঞ্চালনায় 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে  রাখেন,  উপজেলা পরিষদের  চেয়ারম্যান মোহাম্মদ  রিয়াজ  উদ্দিন।বিশেষ অতিথি  হিসেবে ছিলেন মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান  অধ্যাপিকা হাসনা হেনা।

প্রধান  অতিথি বলেন,প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী সারা দেশে কৃষকদের মাঝে সবজি বীজ বিতরণের অংশ হিসেবে সিরাজগঞ্জ 

সদর উপজেলার  কৃষকদের মাঝে বিভিন্ন  ধরনের বীজ  এবং  সার বিতরণ করা হয়েছে।

তিনি  আরও  বলেন, সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেয়া নির্দেশনা মোতাবেক কোনো জমি যাতে অনাবাদি না থাকে। সেই লক্ষ্যে এ বীজ বিতরণ করা হচ্ছে । 

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়,খরিপ-২/২০২০-২১  বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত 

ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে  কৃষি প্রনোদনা কর্মসূচির আওতায় বিনামূল্যে  মাসকলাই এর বীজ ও রাসায়নিক সার উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার প্রতি ১জন কৃষকের মাঝে ৫ কেজি মাসকলাই  বীজ,ডিএপি সার ১০ কেজি,এমওপি ৫ কেজি করে মোট ৯ শত কৃষকের মাঝে  বিতরণ  করা হয় । 

অন্যান্যদের মধ্যে কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার শর্মিষ্ঠা সেন গুপ্তা,মো: সাব্বির আহমেদ সিফাত,মোঃ সাইদুল জামান সারেরু উপস্থিত ছিলেন।

সিরাজগঞ্জে চালিতাডাঙ্গায় কর্মি সভা করেন নাসিম পুএ জয়

 সিরাজগঞ্জে চালিতাডাঙ্গায় কর্মি সভা করেন নাসিম পুএ জয়




মাসুদ রানা সিরাজগঞ্জ জেলাপ্রতিনিধিঃ 

সিরাজগঞ্জের কাজিপুরে কর্মীসভা করেছেন সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী প্রয়াত মোহাম্মদ নাসিম পুত্র সিরাজগঞ্জ-১ (কাজিপুর) আসনের উপনির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী তানভীর শাকিল জয়।

বুধবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকেলে কাজিপুর উপজেলার চালিতাডাঙ্গা ইউনিয়নের গাড়াবেড় চকপাড়া এলাকায় এই কর্মীসভা অনুষ্ঠিত হয়।

স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা গোলাম হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত কর্মসভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমান শিরাজী, উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি শওকত হোসেন, উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান দ্বীন মোহাম্মদ বাবলু, ইউপি চেয়ারম্যান আতিকুর রহমান মুকুল প্রমুখ।

সভায় সাবেক এমপি তানভীর শাকিল জয় বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বুকে ধারণ করে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। বাবা মোহাম্মদ নাসিমের অসমপূর্ণ কাজ শেষ করতে কাজিপুরের মাটি ও মানুষের হাতে হাত রেখে কাজ করে যাবো।

দুলারহাটে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী ও এমপি জ্যাকব আগমনে নুরাবাদ ইউনিয়ন আ'লীগের প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত

 দুলারহাটে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী ও এমপি জ্যাকব আগমনে নুরাবাদ ইউনিয়ন আ'লীগের প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত




মোবাশ্বের আলম চরফ্যাশন উপজেলা প্রতিনিধিঃ


ভোলার চরফ্যাশন উপজেলায় আগামী ৪ঠা সেপ্টেম্বর গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী কর্নেল জাহিদ ফারুক ও ভোলা ৪ আসনের এমপি যুব ও ক্রিড়া মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এমপি জ্যাকব আগমন উপলক্ষে নুরাবাদ ইউনিয়ন আ'লীগের প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে  ।


বুধবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকালে দুলারহাট নীলিমা জ্যাকব কলেজে ইউনিয়ন আ'লীগের সহ-সভাপতি নাছির আহমেদ মেম্বারের সভাপতিত্বে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয় 


এসময় উপস্থিত ছিলেন, নুরাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আনোয়ার হোসেন, ইউনিয়ন আ'লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ হোসেন মিয়া, যুবলীগের সভাপতি ইউসুফ আলী,আ'লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ফারুক হাং,আ'লীগ নেতা আব্বাছ মিয়া, দিলীপ কুমার পোদ্দার সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। 

প্রস্তুতি সভা সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেন, চরফ্যাশন উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সুমন মাতাব্বর 


সভায় মাননীয় মন্ত্রী মহোদয় ও যুব ও ক্রিড়া মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মহোদয় দুলারহাট থানায় আগমন উপলক্ষে Covid-19 সচেতনতায় সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বিভিন্ন কার্যক্রমের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়।


উল্লেখ,সফররত অবস্থায় মাননীয় প্রতিমন্ত্রী মহোদয় চরফ্যাশন বেতুয়া ঘাটের নদী ভাঙন রোধে ব্লক স্থাপন প্রকল্পের কাজ পরিদর্শন ও দুলারহাট থানার নুরাবাদ ও নীলকমল ইউনিয়নে নদী ভাঙন রোধে প্রকল্প গ্রহণ করবেন।

মুজিব শতবার্ষিকী উপলক্ষে ঝিকরগাছায় বৃক্ষরোপণ

মুজিব শতবার্ষিকী উপলক্ষে ঝিকরগাছায় বৃক্ষরোপণ



মোঃ ইকরামুল করিম সৈকত, ঝিকরগাছা (যশোর) প্রতিনিধিঃ স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শত জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে, বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন বোর্ডের আওতাধীন দরিদ্র-বিমোচনের লক্ষ্যে পুষ্টিসমৃদ্ধ, উচ্চ মূল্যের অপ্রধান শস্য উৎপাদন ও বাজারজাতকরণ কর্মসূচির সুফলভোগী সদস্যদের মাঝে বুধবার সকাল ১০টার সময় মসলা জাতীয় গাছের চারা বিতরণ করা হয়েছে। প্রথম পর্যায়ের বুধবার ১৫০ টি চারা বিতরণ করা হয়েছে এবং দ্বিতীয় পর্যায়ে বৃহস্পতিবার ৩০০টি চারা বিতরণ করা হবে।

বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন বোর্ডের ঝিকরগাছা অফিসের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে বিআরডিবির অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন বোর্ডের ঝিকরগাছা উপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার বিএম কামরুজ্জামানের সভাপতিত্ব প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহি অফিসার আরাফাত রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান লুবনা তাক্ষী, জেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার তপন কুমার মন্ডল, উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মোঃ মাসুদ হোসেন পলাশ, উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার আনোয়ার কবির, থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আব্দুর রাজ্জাক, ইউসিসির সভাপতি রওশনারা, সহকারী পল্লী উন্নয়ন অফিসার এসএম শাখির উদ্দিন, পল্লী জীবিকায়ন প্রকল্পের অফিসার মো: আনিসুর রহমান, ইরেসপো প্রকল্প অফিসার শহীদুল্লাহ লিমন প্রমুখ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার এএসএম জিল্লুর রশিদ।

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ৯ম শ্রেণীর মুসলিম ছাত্রীকে নিয়ে হিন্দু কিশোর উধাও

 ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ৯ম শ্রেণীর মুসলিম ছাত্রীকে নিয়ে হিন্দু কিশোর উধাও




সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ জেলা প্রতিনিধিঃঝিনাইদহ সদরের নলডাঙ্গা ইউনিয়নের নলডাঙ্গা গ্রামের মনোজ বিশ্বাসের ছেলে তপু বিশ্বাস। ভিন্ন ধর্মী ৯ম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে নিয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে সে।


তার সম্পর্কে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, তপু নামের ছেলেটা লম্পট ধরণের সে প্রায়ই নাবালিকা মেয়েদের উত্যক্ত করতো।যার কারণে ইতিপূর্বে পারিবারিক ও স্থানীয় ভাবে তপুকে নিয়ে অনেকবার বিচার শালিশের মাধ্যমে এই সব সমস্যার সমাধান করা হয়ে থাকলেও সেপথ থেকে সরে আসেনি তপু।


কালীগঞ্জ উপজেলার চাপালী গ্রামের খাইরুল ইসলামের মেয়ে মারিয়া(১৬)। সে সলিমুন্নেসা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেনীর ছাত্রী। মেয়েকে না পেয়ে বাবা গত ২৫ আগষ্ট কালীগঞ্জ থানাতে ২৬/৮(১২৫৩) জিডি করে থাকেন এবং উল্যেখ করেন,আমার নাবালিকা কন্যা ১টার দিকে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে কোলা রাস্তার মুসলিম বেকারীর পাশ থেকে আগামীগন মাইক্রোযোগো আমার মেয়েকে তুলে নিয়ে যায়।তিনি আরো সন্দেহ করেন আমার মেয়েকে ভারতে পাচার করে দিতেও পারে। 


বিষয়টি স্থানীয় প্রতিনিধি ও পারিবারিক ভাবে উঠাবসাকে গুরুত্ব দিয়ে নির্দিষ্ট সময় বেঁধে দেওয়া হলেও সেটাকে তোয়াক্কা না করে বাড়ির সকলে মিলে গা ঢাকা দিয়েছে তপুর পরিবার। তপুর বাবা মনোজ বিশ্বাসের সাথে একাধিকবার ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্ঠা করা হলেও সম্ভব হয়নি।


এ বিষয়কে কেন্দ্র করে মেয়ের বাবা খাইরুল ইসলাম বাদী হয়ে কালীগঞ্জ থানাতে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে ০১/৯ নং মামলা দায়ের করেছেন।

সাতক্ষীরায় পুকুরে মাছের পোনা অবমুক্ত করণের উদ্বোধন করলেন -এমপি রবি

সাতক্ষীরায় পুকুরে  মাছের পোনা অবমুক্ত করণের উদ্বোধন করলেন -এমপি রবি



আজহারুল ইসলাম সাদী, জেলা প্রতিনিধিঃ


'নিরাপদ মাছে ভরবো দেশ মুজিববর্ষে বাংলাদেশ’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে অভ্যন্তরীণ জলাভূমি, বর্ষা প্লাবিত ধান ক্ষেত, প্লাবন ভূমি, প্রাতিষ্ঠানিক জলাশয়ে মাছের পোনা অবমুক্ত করণের উদ্বোধন করা হয়েছে।


এ লক্ষে আজ বুধবার (০২ সেপ্টেম্বর) বেলা সাড়ে ১১ টায় সাতক্ষীরা সদন উপজেলা পরিষদের পুকুরে, বাংলাদেশ মৎস্য অধিদপ্তরের সহযোগিতায় এবং সদর উপজেলা মৎস্য দপ্তরের ব্যবস্থাপনায়  সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেবাশীষ চৌধুরী’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে পুকুরে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন সাতক্ষীরা (০২) আসনের সংসদ সদস্য, সাবেক নৌ-কমান্ডো, বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি।


বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আসাদুজ্জামান বাবু, সদর উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোঃ হাসান সাজ্জাদ, সদর উপজেলা সহকারি মৎস্য অফিসার মোঃ লুৎফর রহমান, পৌর আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-দপ্তর সম্পাদক ও জিয়াউর বিন সেলিম যাদু, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ রেজাউল ইসলাম রেজা, ছাত্রলীগ নেতা কাজী হাশিম উদ্দিন হিমেল প্রমুখ।

অবসরপ্রাপ্তদের সুসজ্জিত গাড়িতে পৌঁছে দিলেন পুলিশ সুপার

 অবসরপ্রাপ্তদের সুসজ্জিত গাড়িতে পৌঁছে দিলেন পুলিশ সুপার

সুমন হোসেন, যশোর জেলা প্রতিনিধি:

যশোর জেলা থেকে অবসরে যাওয়া সহকর্মীদের আনুষ্ঠানিকতার সঙ্গে সুসজ্জিত গাড়িতে করে বাড়ি পৌঁছে দিয়েছেন যশোর পুলিশ সুপার আশরাফ হোসেন।


গত ২৩ আগস্ট জেলা পুলিশ যশোরের ত্রৈমাসিক কল্যাণ সভায় সিদ্ধান্ত হয়, অবসরে যাওয়া সহকর্মীদের বাড়ি যশোর বা পাশ্ববর্তী জেলায় হলে সুসজ্জিত গাড়ি করে তাদের বাড়ি পৌঁছে দেয়া হবে। আর দূরের জেলায় হলে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত গাড়ির টিকেট দেয়া হবে। তাদেরকে বাসস্ট্যান্ড পর্যন্ত সুসজ্জিত গাড়ি করে পৌঁছে দেয়া হবে।



তারই প্রেক্ষিতে সোমবার দুপুরে পুলিশ লাইন্সে যশোর জেলার পুলিশ সুপার আশরাফ হোসেনের নির্দেশনায় প্রথমবারের মতো যশোর জেলা থেকে অবসরে যাওয়া চার কনস্টেবলকে বিদায় দেয়া হয়।


সদ্য বিদায়ী চারজন সহকর্মী বিদায়বেলা পুলিশ সুপারের এমন চমকপ্রদ আয়োজনে অত্যন্ত হাস্যোজ্জল ছিলেন এবং পুলিশ সুপারকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।


এ সময় উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলার পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেনসহ জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।


বিদায়ী কনস্টেবলরা হলেন সাতক্ষীরার শেখ মশিউর রহমান, সিরাজগঞ্জের শহিদুল ইসলাম, যশোরের জিন্নাতুল জাকিয়া (কম্পিউটার অপারেটর) ও বজলুর রহমান (ওজনদার)।

মাধবপুরে ব্যক্তি ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানসহ ৮৫০০ টাকা অর্থদণ্ড

 মাধবপুরে ব্যক্তি ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানসহ ৮৫০০ টাকা অর্থদণ্ড




লিটন পাঠান, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি


হবিগঞ্জের মাধবপুরে সংক্রমণ প্রতিরোধে স্বাস্থ্য বিধি ও জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত না রাখা, দোকানের সামনে মালামাল রেখে রাস্তা প্রতিবন্ধতা সৃষ্টি করায় ও মাস্কের ব্যবহার নিশ্চিত এর লক্ষ্যে মাধবপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট আয়েশা আকতার নেতৃত্বে মাধবপুর বাজারে বুধবার (২-সেপ্টেম্বর) মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন এসময় স্বাস্থ্যবিধি ও মাস্ক ব্যবহার না করা।


জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত না রাখায়, দোকানের সামনে মালামাল রেখে রাস্তায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করায় ইত্যাদি কারণে ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান মিলে ১৪ টি’র কাজ থেকে ৮৫০০ টাকা অর্থদণ্ড আদায় করা হয়। মাধবপুর থানা পুলিশে এস আই আলাউদ্দিন সহ উনার সঙ্গী ফোর্স নিয়ে মোবাইল কোর্ট কে সর্বাত্মক সহযোগিতা করেন। উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি আয়েশা আক্তার জানান, স্বাস্থ্যবিধি মানা ও মাস্কের ব্যবহার ও রাস্তা মালামাল রেখে প্রতিবন্ধকতা কারীদের বিরুদ্ধে মাধবপুরে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ফুলতাঁরা ইনফরমেশন এন্ড হেল্প সেন্টার গ্রুপের উদ্যোগে কুইজ প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ

 ফুলতাঁরা ইনফরমেশন এন্ড হেল্প সেন্টার গ্রুপের উদ্যোগে কুইজ প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ




স্টাফ রিপোর্টার আর.জে মিজানুর রহমান ইমন : 


ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলা প্রেসক্লাব কার্যালয়ে ২ই সেপ্টেম্বর বুধবার "ফুলতারা ইনফরমেশন এন্ড হেল্প সেন্টার" গ্রুপের উদ্যোগে কুইজ প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরুস্কার বিতরণ করা হয় । 


উক্ত আয়োজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, তারাকান্দা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহ্বাজ এডভোকেট ফজলুল হক, তারাকান্দা থানার অফিসার অফিসার ইনচার্জ আবুল খায়ের সোহেল, তারাকান্দা উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও তারাকান্দা উপজেলা আওয়ামী লীগের শিক্ষা ও মানব সম্পদ উন্নয়ন বিষয়ক সম্পাদক নুরুজ্জামান সরকার (বকুল মাষ্টার) ।


এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন, তারাকান্দা উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি মোঃ মোজাম্মেল হক, সিএইচসিপি ময়মনসিংহ বিভাগীয় কমিটির সভাপতি হুমায়ুন কবির সোহেল নানক, সুরুজ্জামান সুরুজ । তারাকান্দা বাজার বণিক সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক শাহজাহান আকন্দ সাজু, অফিসার ম্যানেজার ইছব আলী, কুইজ প্রতিযোগীতায় বিজয়ী ব্যাক্তি মোস্তফা কামাল তালুকদার, সজীব ওয়াজেদ জয় পরিষদ তারাকান্দা উপজেলা শাখার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সাংবাদিক বাবুল চন্দ্র সূত্রধর ও প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক আর.জে মিজানুর রহমান ইমন, সহ-সভাপতি মোঃ আজগর আলী, জাতীয় সাংবাদিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন ফুলপুর উপজেলা শাখার সভাপতি তাসনোভা নাসরিন নিশু ও সাধারণ সম্পাদক আর.জে সাকিব মিয়া, ফুলতারা ইনফরমেশন এন্ড হেল্প সেন্টার গ্রুপের মডারেটরগণ রুবেল, মাসুদ তপু রায়হান, মাসুদ সহ সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেত্ববৃন্দ ।

কিশোরগঞ্জে ৪ বছরের এক শিশু ধর্ষণের শিকার

 কিশোরগঞ্জে ৪ বছরের এক শিশু ধর্ষণের শিকার




মো: লাতিফুল আজম

কিশোরগঞ্জ নীলফামারী প্রতিনিধি:


নীলফামারীর কিশোরগঞ্জে ৪ বছরের এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে। ওই শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে ধর্ষককে। ঘটনাটি ঘটেছে নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের দক্ষিণ রাজিব দুন্দিয়াপাড়া গ্রামে।



থানা ও পারিবারিক সূত্র জানায়, উপজেলার সদর ইউনিয়নের মুশা গ্রামের ডালিম কুমারের ৪ বছরের শিশুটি দুন্দিপাড়ায় তার নানি বাড়িতে ২৯ আগষ্ট যায়।  ৩১ আগষ্ট দুপুরে শিশুটি প্রতিবেশী আরও কয়েকজন শিশুর সাথে খোলাধুলা করছিল। এ সময় দঃ রাজিব দুন্দিয়াপাড়ার নেলভেলুর পুত্র পরিমল চন্দ্র (১৪) শিশুটিকে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে পার্শ্ববতী বাড়িতে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে।


এসময় শিশুটি চিৎকার দিলে শিশুটির নানীকে দৌড়ে আসতে দেখলে পরিমল ও সহপাঠি একজন দ্রুত পালিয়ে যায়। বাড়িতে আসার পর শিশুটি তার নানীকে ঘটনাটি জানায়।


আজ ২ সেপ্টেম্বর কিশোরগঞ্জ থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা হয়েছে। তাৎক্ষনিক পুলিশ অভিযুক্ত ধর্ষক পরিমল চন্দ্রকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃতকে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।



এদিকে শিশুটিকে কিশোরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে নীলফামারী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে তার শারিরীক পরীক্ষা করা হবে বলে কিশোরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জানান।



কিশোরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল আউয়াল জানান- অভিযোগ পাওয়া মাত্রই অভিযুক্ত আসামীকে গ্রেফতার করে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। শিশুটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে নীলফামারী সদর হাসপাতালে শারিরীক পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করা হয়। এছাড়া শিশু আদালতে মামলাটি পরিচালনার জন্য আবেদন করা হয়েছে।


শিশুটির মা তার ৪ বছরের সন্তানের সাথে এমন আচরণের উপযুক্ত বিচার দাবী করেন।

যাদের উন্নয়নের গতি সহ্য হচ্ছে না তারাই সরকারের সমালোচনা করছে -এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল

যাদের উন্নয়নের গতি সহ্য হচ্ছে না  তারাই সরকারের সমালোচনা করছে                              -এমপি মনোরঞ্জন শীল গোপাল



মামুনুর রশিদ,দিনাজপুর প্রতিনিধি ॥ দিনাজপুর-১ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য মনোরঞ্জন শীল গোপাল বলেছেন, করোনা ভাইরাসের এই বৈশ্বিক দূর্যোগের সময়ও শেখ হাসিনার সরকার উন্নয়নের গতিধারা অব্যাহত রেখেছে। উন্নয়নের এই অব্যাহত গতিধারা বিশ্বে রোল মডেল হিসেবে পরিনিত হচ্ছে। শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ খাদ্যে সয়ংসম্পন্ন দেশ। বাংলাদেশ আজ সব দিক থেকে এগিয়ে যাচ্ছে। যাদের এ উন্নয়নের গতি সহ্য হচ্ছে না, তারাই সরকারের সমালোচনা করছে। আওয়ামী লীগ তথা বর্তমান সরকার জনগনের কথা চিন্তা করে, দেশের আগামী প্রজন্মের কথা চিন্তা করে বলে এখনও উন্নয়ন হচ্ছে। আমি যতদিন এ এলাকার মানুষের ভালোবাসায় সংসদ সদস্য হিসেবে থাকবো, ততদিন এলাকার উন্নয়ন করাই আমার ধ্যান-জ্ঞান হিসেবে কাজ করে যাবো। তিনি বলেন, ‘শেখ হাসিনা’ বাংলাদেশ তথা আমাদের জন্য আশির্বাদ। তিনি যেভাবে দেশের উন্নয়ন করে চলেছেন, তাতে আমরা উন্নয়নের রোডম্যাপে অবস্থান করছি। শীঘ্রই আমরা উন্নত দেশের কাতারে শামিল হবো। একের পর এক স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসার বিল্ডিং নির্মাণ তাঁর উন্নয়নের ধারা মাত্র। 

২ সেপ্টম্বর ২০২০ বুধবার বীরগঞ্জ উপজেলার সাতোর ইউনিয়নে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের বাস্তবায়নে ১ কোটি ৫ লাখ টাকা ব্যয়ে চৌপুকুরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের নব-নির্মিত একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন শেষে আলোচনা সভায় তিনি উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

চৌপুকুরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মো. জাকির হোসেন রাজা এর সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আমিনুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল কাদের, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক মো. নুর ইসলাম নুর, শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মো. গুলজার হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. শামীম ফিরোজ আলম, সাতোর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রেজাউল করিম শেখ, চৌপুকুরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল সাত্তার মিলন, বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের জেলা শাখার আহবায়ক মো. কামাল হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগর যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক মো. ইয়াসিন আলীপ্রমুখ।

আগে সাতোর ইউনিয়নে নব-নির্মিত চৌপুকুরিয়া কমিউনিটি ক্লিনিক উদ্বোধন করেন এমপি গোপল।

দিনাজপুর সদর হাসপাতালে আগুন

 দিনাজপুর সদর হাসপাতালে আগুন





খাদেমুল ইসলাম রাজ

বীরগঞ্জ প্রতিনিধিঃ


দিনাজপুর জেলা সদর হাসপাতালে বিকেল ছয় টার নাগাদ আগুন লাগে।

আগুন লাগার পরই হাসপাতালের কর্মীরা রোগীদের নিরাপদ জায়গায় নিয়ে যেতে শুরু করেন। পুলিশ ও বেশ কয়েকটি দমকল খুব তাড়াতাড়ি হাসপাতালে পৌঁছয়। তারাও বেশ কিছু রোগীকে নিরাপদ জায়গায় নিয়ে যায়। জানা গেছে, মোট ৮০ জন সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।


সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. আহাদ আলী জানান, হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ৭০ জন রোগীকে নামিয়ে আনা হয়েছে। বর্তমানে ফায়ার সার্ভিসের দুই ইউনিট কাজ করছে।

ভারতের কারাগার থেকে মুক্তি পেয়ে ১২৩ দিন পর দেশে ফিরলেন কুড়িগ্রামের ২৫ বাংলাদেশি

 ভারতের কারাগার থেকে মুক্তি পেয়ে ১২৩ দিন পর দেশে ফিরলেন  কুড়িগ্রামের ২৫ বাংলাদেশি




 মোঃইয়ামিন সরকার আকাশ।

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ

ভ্রমণ ভিসায় ভারতে গিয়ে করোনাকালে ভারতের জেলে বন্দি ২৫ বাংলাদেশি মুক্তি পেয়ে ১২৩ দিন পর দেশে ফিরেছেন। বুধবার দুপুর ২টায় বুড়িমারি-চেংড়াবন্ধা চেকপোস্ট দিয়ে দেশে ফেরেন তারা। রেল-নৌ, যোগাযোগ ও পরিবেশ উন্নয়ন গণ কমিটির কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের সাবেক সভাপতি ও সংগঠক নাহিদ হাসান নলেজ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।


এর আগে গত ৩ মে দেশে ফেরার সময় ভ্রমণ ভিসা নিয়ে ভারতে যাওয়া ২৬ বাংলাদেশিকে আটক করে ভারতের ধুবড়ি পুলিশ। এদের একজন ভারতে কারা হেফাজতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তাদের সকলের বাড়ি কুড়িগ্রামের চিলমারী উপজেলায়।

গত শনিবার (২৯ আগস্ট) ভারতের ধুবড়ি আদালতের দেওয়া আদেশের পরিপ্রেক্ষিতে কারামুক্ত হয়ে বুধবার (২ সেপ্টেম্বর) দুপুর ২টায় বুড়িমারি-চেংড়াবন্ধা চেকপোস্ট দিয়ে দেশে ফেরেন তারা। ভারতের হাইকোর্টের আইনজীবী অসীম দাস গুপ্ত এবং ধুবড়ি আদালতের আইনজীবী রাজস্বী দাস গুপ্ত আটক বাংলাদেশিদের পক্ষে আইনি লড়াই করেন।

নাহিদ হাসান নলেজ জানান, বৈধ ভিসায় ভারতে গিয়ে করোনাকালে আইনের বেড়াজালে আটক ২৫ বাংলাদেশি প্রায় চার মাস ভারতের কারাগারে আটক থাকার পর আদালতের আদেশে ভারতের ধুবড়ি কারাগার থেকে ছাড়া পেয়ে দেশে ফিরেছেন।

তিনি আরো জানান, মুক্তিযুদ্ধসহ সকল সংগ্রামে শহীদগণের স্মরণে ও মুক্তি প্রচেষ্টায় অংশগ্রহণকারী ভারতীয় ও বাংলাদেশি বন্ধুদের প্রতি কৃতজ্ঞতায় কুড়িগ্রাম শহিদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদান শেষে ঘরে ফিরবেন তারা।

মুক্তি পাওয়া বাংলাদেশিদের স্বজনদের মধ্যে আটক হানিফ মিয়া ও মানিক মিয়ার বাবা লাল মিয়া, আমিনুল ইসলামের ছোট ভাই মমিনুল সহ রেল- নৌ, যোগাযোগ ও পরিবেশ উন্নয়ন গণ কমিটির সদস্যরা বুড়িমারি চেকপোস্টে কারামুক্ত বাংলাদেশিদের গ্রহণ করেন।

আশাশুনির প্রতাপনগরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় ৩৫০ প্যাকেট খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করলেন পুলিশ সুপার মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান

আশাশুনির প্রতাপনগরের ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় ৩৫০ প্যাকেট খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করলেন পুলিশ সুপার মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান



আহসান উল্লাহ বাবলু, উপজেলা   প্রতিনিধিঃ  অতিবর্ষণ ও প্রবল জোয়ারে আশাশুনি উপজেলার প্রতাপনগর ইউনিয়নের ভাঙ্গন কবলিত এলাকা শ্রীপুর, কুড়িকাহুনিয়া, হরিশখালি ও চাকলাসহ ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় ৩৫০ প্যাকেট খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করলেন সাতক্ষীরা জেলার পুলিশ সুপার মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান। বুধবার সকাল ১১ টায় প্রতাপনগর ইউনিয়নের লস্কর-ই খাজরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। ত্রাণ সামগ্রী বিতরণকালে তিনি বলেন, যে যত বড় ক্ষমতাশীল ব্যক্তি হন না কেন অপরাধ করলে কোন ছাড় নেই। আপনারা যে যে দল করেন না কেন আমার কোন আপত্তি নেই কিন্তু যে দল নাশকতা করে মানুষকে আগুনে পুড়িয়ে মারে, দেশকে অচল করার জন্য স্থিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করে সেদল আপনারা করবেন বলে আমি বিশ্বাস করিনা। যদি কেউ সরকারের দেওয়া ত্রাণসামগ্রী আত্মসাৎ করার চেষ্টা করেন তাদের বিরুদ্ধে কঠর পদক্ষেপ গ্রহণ করেন জেলা পুলিশ। তিনি আরোও বলেন, জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ভাঙ্গন কবলিত এলাকার জন্য টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণ করতে যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছি। এছাড়া কোনো মাদক ব‍্যাপসায়ীকে ছাড় দেওয়া হবে না। এসময় উপস্থিত ছিলেন, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (দেবহাটা সার্কেল) শেখ মোঃ ইয়াছিন আলী, সাতক্ষীরা জেলা গোয়েন্দা শাখার (ওসি) মহিদুর রহমান, আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ গোলাম কবির, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান অসীম বরণ চক্রবর্তী,প্রতাপনগর ইউপি চেয়ারম্যান জাকির হোসেনসহ আনুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলমগীর আলম লিটন 


এসআই হাসানুজ্জামানসহ সঙ্গীয় ফোর্স, প্রমুখ। ত্রাণ বিতরণ শেষে ভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন, জেলা পুলিশ সুপার।

যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূর ওপর মধ্যযুগীয় নির্যাতন!

যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূর ওপর মধ্যযুগীয় নির্যাতন!

 



নাহিদ পারেভজ,কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃপটুয়াখালীর কলাপাড়ায় ত্রিশ হাজার টাকা যৌতুকের দাবিতে এক সন্তানের জননী তুলি বেগম(২২) নামে এক গৃহবধুকে ঘরে আটকে টানা মধ্যযুগীয় নির্যাতন করেছে পাষন্ড স্বামী শাহাবউদ্দিন গাজী। গতকাল সন্ধ্যায়  এ নির্যাতনের ঘটনায় অচেতন ওই গৃহবধুকে স্থানীয়রা পুলিশের সহায়তায় উদ্ধার করে কলাপাড়া হাসপাতালে ভর্তি করেছে।  গৃহবধু তুলি বেগম জানান, সাত বছর আগে উপজেলার ধানখালী ইউনিয়নের গন্ডামারি গ্রামের শাহবদ্দিনের সাথে বিয়ে হয় গলাচিপা উপজেলার পক্ষিয়া গ্রামের জাকির গাজীর মেয়ে তুলির সাথে। বিয়ের কয়েকদিন পর থেকেই নানা অজুহাতে যৌতুকের দাবিতে তুলিকে নির্যাতন করে আসছে শাহাবউদ্দিন। বেশ কয়েকবার বাবার বাড়ি থেকে টাকা এনে দিলেও চাহিদা কমেনি স্বামী শাহাবুদ্দিনের। পরে মঙ্গলবার দিনভর তাকে টানা নির্যাতন করা হয়। বর্তমানে ওই গৃহবধু শরীরের বিভিন্ন স্থানের ক্ষত নিয়ে কলাপাড়া হাসপাতালের বিছানায় কাতরাচ্ছেন।  এ ঘটনায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে ওই গৃহবধু।

পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই গৃহবধুকে উদ্ধার করে কলাপাড়া হাসপাতালে ভর্তি করেছে। তবে এখন পর্যন্ত কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে কলাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান।

ঝিকরগাছার নির্বাসখোলা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আমিন উদ্দীন আর নেই!

ঝিকরগাছার নির্বাসখোলা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আমিন উদ্দীন আর নেই!




মোঃ ইকরামুল করিম সৈকত, 

ঝিকরগাছা প্রতিনিধিঃ


স্বাধীনতা পরবর্তী যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার নির্বাসখোলা ইউনিয়ন পরিষদের প্রথম চেয়ারম্যান আমিন উদ্দীন (৯০) বার্ধক্যজনিত কারণে আজ (০২ সেপ্টেম্বর) ভোর সাড়ে ৫ঃ২০ টায় ইন্তেকাল করেছেন। (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।


আজ দুপুর ২ টায় তার নিজ গ্রাম দিঘড়ী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে মরহুমের জানাযার নামাজ আদায় ও শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাতে মরহুমের বাড়ীতে ছুঁটে যান ঝিকরগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক মোঃ মনিরুল ইসলাম। সাথে উপস্থিত ছিলেন ঝিকরগাছা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও যুবলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম বাপ্পি, ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও যুবলীগ নেতা শামিম রেজা সহ উপজেলা আওয়ামী পরিবারের নেতৃবৃন্দ।

কোটচাঁদপুরে আবাসিক এলাকায় পুলিশ ফাঁড়ী নির্মাণের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

 কোটচাঁদপুরে আবাসিক এলাকায় পুলিশ ফাঁড়ী নির্মাণের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন





খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার। 

খুলনা ব্যুরো প্রধান:ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর পৌর শহরের কলেজ ষ্ট্যান্ডে ঘন জনবসতি এলাকায় পৌর পুলিশ ফাঁড়ীর প্রস্তাবনার জায়গার বিরোধীতা করে সংবাদ সম্মেলন করেছে এলাকাবাসী। মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে কলেজ ষ্ট্যান্ড পাড়ার মৃত মশিয়ার রহমান চেয়ারম্যানের স্ত্রী সায়েমা রহমান এলাকাবাসীর পক্ষে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য প্রদান করেন।


এসময় ৭নং পৌর ওয়ার্ড কাউন্সিলর শরাফৎ হোসেন, ব্যবসায়ী লিয়াকত আলী, নাছিরউদ্দীন, শাহাজাহান হোসেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা মঞ্চের সভাপতি ফায়িম শাহারিয়ার, সেক্রেটারী ফায়ান তাহামিদ হৃদয়সহ এলাকার প্রায় ২০/২৫ উপস্থিত ছিলেন। সংবাদ সম্মেলনে সায়েমা রহমান বলেন, নিকটে থানা বা পুলিশ ফাঁড়ি থাকা নিরাপত্তার জন্য অবশ্যয় ভালো।


তবে যে জায়গায় পুলিশ ফাঁড়ি করার জন্য জমির মালিক পুলিশ প্রসাসনের ঊর্ধ্বতন কর্তাদের কাছে প্রস্তাব রেখেছেন আমরা এলাকার মানুষ হিসাবে তার বিরোধীতা করছি। কেননা এটা একটি ঘন জনবসতি এলাকা। প্রস্তাবিত ওই জমির সামনে এবং পাশ দিয়ে যে রাস্তা গেছে তা অত্যান্ত সরু রাস্তা। সে রাস্তা দুটি দিয়ে দুটি ইজিবাইক চলাচল করতে সমস্যা হয়।

 

অথচ ওই জায়গায় সরকারের একটি গুরুপূর্ণ ব্যস্ততম প্রতিষ্ঠান পৌর পুলিশ ফাঁড়ি হলে এলাকার মানুষের চলাচলে বিঘ্ন সৃষ্টি হবে। তাছাড়া প্রস্তাবিত ৪৯ শতক জমির মধ্যে এর আগে জমি মালিকদের এক ভাই ৮শতক জমি বিক্রি করেছেন। ওই জমি ফিরিয়ে নিয়ে ইতিমধ্যে অন্য দুই ভাই হকসেবা করে আদালতে টাকা জমা দিয়েছেন। সায়েমা রহমান বলেন-ওই জমি ফিরিয়ে নিয়ে একত্রে পুলিশ ফাঁড়ির জন্য বিক্রি করবেন বলে পাঁয়তারা চালাচ্ছেন।


এদিকে জমি মালিকদের তিন ভাইয়ের মধ্যে বড় ভাই মুক্তার হোসেন বলেন- প্রায় আড়াই বছর আগে পুলিশ প্রসাশনের সাথে তাদের কথা হয়েছিল তারা জমি দেখে জমির পর্চাও নিয়ে যান। এরপরে তাদের আর কোন কথা হয়নি। তিনি বলেন, এর মধ্যে তার মেঝে ভাই আক্তারুজ্জামান ৮শতক জমি বিক্রি করে দিয়েছেন। ওই জমি ফিরিয়ে নিতে তারা ইতিমধ্যেই আদালতে টাকা জমা দিয়েছেন বলে জানান।

 

তিনি চান ওই জমিতে পুলিশ ফাঁড়ি হোক। তিনি বলেন সম্পূর্ণ জমিটি একবারে বিক্রি হলে তারা সকলেই টাকা ভাগ করে নিতে পারবেন। এ ব্যাপারে কোটচাঁদপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাহাবুব আলম বলেন, এক সময় জমির মালিকের সাথে কথা হয়েছিল বলে তিনি শুনেছেন। তারপর থেকে আমাদের কাছে কোন দিক নির্দেশনা আসে নাই। সে কারণে ওখানেই পুলিশ ফাঁড়ি হবে কিনা এই বিষয়ে আমার জানা নেই।

নিষেধাজ্ঞা শেষে সুন্দরবনের নদী ও খালে মৎস্য আহরন শুরু করেছে উপকুলের জেলেরা

 নিষেধাজ্ঞা শেষে সুন্দরবনের নদী ও খালে মৎস্য আহরন শুরু করেছে উপকুলের জেলেরা




মোঃএরশাদ হোসেন রনি, মোংলা   
 দীর্ঘ দুইমাসের নিষেধাজ্ঞা শেষে সুন্দরবনের বিভিন্ন নদী ও খালে ফিরতে শুরু“ করেছে উপকূলের জেলেরা। এর আগে (১ সেপ্টেম্বর)মঙ্গলবার বন বিভাগের বিভিন্ন স্টেশন থেকে পাশপামিট সংগ্রহ করে তারা। বুধবার সকাল থেকে ট্রলার ও নৌকা নিয়ে সুন্দরবনের বিভিন্ন নদী ও খালে মাছ ধরতে নামে জেলেরা। দীর্ঘসময় পর মাছশিকারের অনুমতি পেয়ে স্বস্তি ফিরেছে জেলেপরিবারে। আর দুই মাস মাছ ধরা বন্ধ থাকায় বেশি মাছ পাওয়ার আশা জেলেদের।  

প্রজনন মৌসুমকে ঘিরে গত ১ জুলাই থেকে ৩১আগস্ট পর্যন্ত সুন্দরবনের নদী-খাল ও জলাভূমিতে জেলেদের প্রবেশ ও সকল প্রকার মৎস্য আহরণ বন্ধরাখে বন বিভাগ। দুথমাসের এই নিষেধাজ্ঞা শেষ হয়েছে সোমবার রাত ১২টার পর। 

বনবিভাগ সুত্রে জানাযায়, প্রায় ৬হাজার বর্গকিলোমিটার আয়তনের সুন্দরবনে ছোট বড়মিলিয়ে ৪৫০টি নদী-খাল রয়েছে। বনাঞ্চলের এজলাভূমির মধ্যে অভয়ারণ্য ঘোষিত ৩০টি খাল এবং২৫ ফুটের কম প্রশস্ত খালে সারা বছরই মাছ ধরানিষিদ্ধ থাকে। আর বাকী অংশের নদী-খাল ওজলাভূমিতে পাশধারী জেলেরা মৎস্য আহরণ করেজীবিকা নির্বাহ করেন।

সুন্দরবনে মৎস্য আহরণের উপর উপকূলের প্রায় ৩০হাজার জেলে পরিবারের জীবন-জীবিকা নির্ভর। এদেরবেশির ভাগই জেলেই বংশ পরম্পরায় সুন্দরবনে মাছধরে জীবিকা নির্বাহ করে আসছেন। মোংলা ওআশপাশের এলাকাসহ সুন্দরবন লাগোয়া এলাকারবিপুল সংখ্যক জনগোষ্ঠীও বনের মৎস্য সম্পদ আহরণও বিকিকিনির সঙ্গে জড়িত।

২০১৯ সাল থেকে মাছের সংখ্যা বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে জুলাই ও আগস্ট মাস সুন্দরবনের নদী ও খালগুলোতে সব ধরনের মাছ ধরায় নিষেধাজ্ঞা জারি করে বন বিভাগ।##

কেশবপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত -১

কেশবপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত -১




মোরশেদ আলম

যশোর প্রতিনিধি 


যশোরের কেশবপুরে বুধবার দুপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় ভেটেরিনারি ওষুধ বিক্রয় প্রতিনিধি মিজানুর রহমান (৩৬) নিহত হয়েছেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন এবং চিকিৎসক বলেন হাসপাতালে নেওয়ার আগে তার মৃত্যু হয়।পরে পুলিশ লাশ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছেন।


থানা পুলিশ জানায়, কেশবপুর-কলাগাছি সড়কের সাতাইশকাটি নামক এলাকায় বিপরীতমুখী ইজিবাইক ও মোটর সাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে মোটর সাইকেল চালক মিজানুর রহমান মারা যান। তিনি পাশ্ববর্তী পাটকেলঘাটা থানার কলাপোতা গ্রামের মৃত মোসলেম উদ্দিন বিশ্বাসের ছেলে। তিনি ভেটেরিনারি ওষুধ বিক্রয় প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতেন। এ সময় ইজিবাইকের যাত্রী পাশ্ববর্তী ডুমুরিয়া উপজেলার ধামালিয়া গ্রামের বিজয় পাল (৪০) নামে এক ব্যক্তি আহত হলে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানা গেছে।


 

এলাকাবাসী জানায়, দুর্ঘটনা কবলিত স্থানে একটি ট্রাক থেকে মালামাল নামানোর সময় পাঁজিয়ামুখী মোটর সাইকেলের সঙ্গে বিপরীত দিক থেকে আসা ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষে এ দুর্ঘটনা ঘটে।


কেশবপুর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক ফজলে রাব্বি জানান, লাশ উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ব্যাটারি চালিত ইজিবাইকটি জব্দ করা হয়েছে। ইজিবাইক চালক পলাতক রয়েছে।

বেহাল রাস্তায় দুর্ভোগে এলাকবাসী

 বেহাল রাস্তায় দুর্ভোগে এলাকবাসী



আজহারুল ইসলাম মোহনগঞ্জ প্রতিনিধি  নেত্রকোনা : নেত্রকোনার মোহনগঞ্জ  পৌরশহরের ভেতর দিয়ে যাওয়া বেশ কয়েকটি রাস্তায়  বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে তাতে বৃষ্টির পানি জমে চলাচলের অনুপোযোগী হয়ে সাধারণের দুর্ভোগ চরমে পৌছেছে। 


বুধবার ( ২ সেপ্টেম্বর) সরেজমিন ঘুরে এমন এমন দুরাবস্থার চিত্রই দেখা গেছে।


বেহাল এসব সড়কের মধ্যে উপজেলার পূর্বদিকে সাতুরএরাড , অন্যদিকে থানার সামনে থেকে মার্কাজ পর্যন্ত রাস্তাটির অবস্থা ভীষণ খারাপ। বছরের পর পর বছর ধরে এসব ভাঙ্গা  রাস্তায় মানুষ দুভোর্গ পোহালেও সামান্য সুরকি দিয়েও সাময়িক চলাচলের ব্যবস্থা নেয়নি কর্তৃপক্ষ। 

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, পৌরশহরের ভেতর দিয়ে গেলেও এ দুটি রাস্তা মূলত স্থানীয় প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) অধীন। 


স্থানীয় সমাজ কর্মী এমদাদুল ইসলাম খোকন বলেন, এলজিইডি'র কাজের গাফেলতিতে রাস্তার এমন অবস্থা হয়েছে।  পৌরসভার ভেতরের এই কয়টি রাস্তা এলজিইডি'র কাছে দেয়া ঠিক হয়নি। এলজিইডি এই রাস্তাগুলোর সাথে বিমাতা সূলভ আচরণ করে। পৌরসভার ভেতরের রাস্তা পৌরসভার হাতেই থাকা দরকার ছিল।


এ বিষয়ে পৌর মেয়র লতিফুর রহমান রতন বলেন, ভাঙ্গা যে কয়টি রাস্তা রয়েছে তার সব কটিই এলজিইডি'র। পৌরসভার কোন রাস্তা ভাঙ্গা নেই। আর এসব রাস্তা শুরু থেকেই এলজিইডি'র হাতে ছিল। তবে এসব রাস্তা পৌর শহরের ভেতরে এবং ভাঙ্গা থাকায় অনেকেই ভূল করে এগুলোকে পৌরসভার রাস্তা মনে করে, কিন্তু বাস্তবতা হলো এগুলো এলজিইডি'র।


মোহনগঞ্জ উপজেলা এলজিইডি'র প্রকৌশলী মো. আলমগীর হোসাইন জানান, এ রাস্তা দুটিই টেন্ডার হয়েছে। সাতুর রাস্তাটি গোডাউন পর্যন্ত আরসিসি আর বাকিটুকু পিচ ঢালাই হবে। অন্যদিকে মার্কাজ রাস্তাটি ৩৫০ মিটার পর্যন্ত আরসিসি ঢালাই হবে। রাস্তা দুটির কাজ দ্রুতই শুরু হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। 


রাস্তা দুটিতে মানুষ দুর্ভোগ পোহাচ্ছে বিষয়টি স্বীকার করে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফুজ্জামান বলেন, রাস্তা দুটি দ্রুত সংস্কার করার জন্য ইঞ্জিনিয়ারকে তাগাদা দিয়েছি।

মাধবপুরে কোভিড-১৯ সুরক্ষা বুথ উদ্বোধণ ও মাস্ক বিতরণ

মাধবপুরে কোভিড-১৯ সুরক্ষা বুথ উদ্বোধণ ও মাস্ক বিতরণ




লিটন পাঠান, হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি


হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্বাস্থ্য কর্মীদের সুরক্ষায় মাধবপুরস্থ সিলেট এসোসিয়েশনের উদ্যোগে কোভিড ১৯ সুরক্ষা বুথ স্থাপন ও কেএন-৯৫ হস্তান্তর করা হয়েছে।

এ উপলক্ষ্যে বুধবার দুপুরে হাসপাতাল হলরুমে স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ ইশতিয়াক আল মামুনের সভাপতিত্বে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মাধবপুরস্থ সিলেট এসোসিয়েশনের।


সভাপতি সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক শাহাব উদ্দিন আহম্মেদ, সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ সহকারী অধ্যাপক ডাঃ আখলাক আহম্মেদ, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ও মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগের গবেষণা কর্মকর্তা গিয়াস উদ্দিন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান তাজুল ইসলাম, আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডাঃ নাদিরুজ্জামান 


মাধবপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি আলাউদ্দিন আল রনি, সংগঠনের সদস্য আব্দুল করিম প্রমুখ শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ সহকারী অধ্যাপক ডাঃ আখলাক আহম্মেদ বলেন, কোভিড মহামারীতে সম্মুখ সারির যোদ্ধা অনেক ডাক্তার মারা গেছেন। কিন্তু কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ এখনো শেষ হয়নি। তাই মাধবপুর হাসপাতালের ডাক্তার ও স্বাস্থ্যকর্মীদের সুরক্ষা এবং জনসাধারণের স্বাস্থ্য সেবা 


নিশ্চিত করার লক্ষ্যে এসোসিয়েশনের পক্ষে ১১টি স্বাস্থ্য সুরক্ষা বুথ ও ২টি কোভিড নমুনা সংগ্রহ কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। প্রধান অতিথি অধ্যাপক শাহাব উদ্দিন আহম্মেদ বলেন, মাধবপুরবাসীর কল্যাণে স্বাস্থ্য চিকিৎসা শিক্ষা ক্ষেত্রে এসোসিয়েশন সব সময় জনগণের পাশে থাকবে।

১০ দফা বাস্তবায়নের দাবীতে দিনাজপুরে মানববন্ধন প্রান-আরএফএল গ্রুপের সেলস্ রিপ্রেজেন্টটিভ বৃন্দ

 ১০ দফা বাস্তবায়নের দাবীতে দিনাজপুরে মানববন্ধন প্রান-আরএফএল গ্রুপের সেলস্ রিপ্রেজেন্টটিভ বৃন্দ

মামুনুর রশিদ,দিনাজপুর প্রতিনিধি :১০ দফা বাস্তবায়নের দাবীতে দিনাজপুরে মানববন্ধন করেছে প্রান-আরএফএল গ্রুপের দিনাজপুর সেলস্ রিপ্রেজেন্টটিভ(এসআর) এর সকল পর্যায়ের কর্মীরা।


২ সেপ্টেম্বর বুধবার দুপুরে দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সন্মুখ সড়কে কর্মীদের নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে বেতন বোনাস প্রদান,মৃত্যু পরবর্তীতে পরিবারকে ৫ লাখ টাকা এককালিন প্রদান,টিএ/ডিএ প্রদান, সকল প্রকার নির্যাতন-নিপিড়ন বন্ধসহ আরো ৬ দফা দাবীতে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসুচী পালন করেছে প্রতিষ্ঠানটির কর্মীরা।


মানববন্ধন চলাকালে বক্তারা বলেন,সারাদেশে করোনাকালিন দূর্যোগের মধ্যেও প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের স্বার্থে আমরা কাজ করে যাচ্ছি কিন্তু গত ২/৩ মাস যাবত আমরা বেতন,বোনাস,টিএডিএ পাচ্ছি না। এমন র্দূযোগে আমরা পরিবার-পরিজন নিয়ে অসহায় জীবন-যাপন করলেও কেউ আমাদের সহযোগীতা করছে না। 


তারা বলেন,আমরা সংশ্লীষ্ট প্রতিষ্ঠানের প্রশাসনকে আগামী ৩ দিনের আল্টিমেটাম দিচ্ছি এরমধ্যে যদি তারা আমাদের দাবী দাওয়া মেনে না নেয় তাহলে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। একই সাথে সরকারের কাছে আমরা শ্রমিকরা ১০ দফা বাস্তবায়ন ও প্রতিকারের জন্য জোর দাবী জানাচ্ছি।  


দাবী গুলোর মধ্যে রয়েছে,বিগত সময়ের হেল্ডাপ বেতন দিতে হবে,বর্তমান বেতন পলিসি বাতিল করতে হবে,একই পন্য ভিন্ন গ্রুপে দেওয়া যাবে না ( ডিপোতে পন্য থাকে না টার্গেট বেশী দেওয়া হয় যা করা সম্ভব হয় না),প্রতি বছর বেতন ভাতা বৃদ্ধির নিয়ম চালু করতে হবে,সেচ্ছায় চাকুরী ছেড়ে দিলে জিডিপি এস এর টাকা ১০০% দিতে হবে,বিনা কারনে এসআরকে চাকুরীচুত করা যাবে না,কোম্পানীল সোফটওয়ার ১০০% ঠিক না করা পর্যন্ত হাজিরা নিশ্চিত করতে হবে,বিনা কারনে এসআরকে গালি-মন্দ করা যাবেনা,টিএ/ডিএ বাড়াতে হবে এবং সেলস্ কমিশন বাড়াতে হবে,কর্মরত অবস্থায় কেউ মৃত্যুবরন করলে তার পরিবারকে ৫ লাখ টাকা নগদ প্রদান করতে হবে।

নগরকান্দায় থানায় জিডি করে মোবাইল উদ্ধার

 নগরকান্দায় থানায় জিডি করে মোবাইল উদ্ধার






ফরিদপুর প্রতিনিধিঃফরিদপুরের নগরকান্দা উপজেলার  তালমা ইউনিয়নের  বিবিরকান্দি গ্রামের মোঃকুদ্দুস মাতুব্বরের ছেলে মোঃ বাহারুল ইসলামের samsung -a20  সেটটি চুরি হয়ে গেলে। 

বাহারুল ইসলাম নগরকান্দা  থানায় একটি জিডি করে। 

জিডি তদন্ত করে  নগরকান্দা  থানার চৌকস পুলিশ অফিসার  এস আই সিরাজ 

মোবাইলটি উদ্ধার   করে ০২ /৯ /২০২০ বুধবার দুপুর ১টা সময় বাহারুলের হাতে তুলে দেয়। 

মোবাইলটি। মোবাইল ফোনটি  পেয়ে বাহারুলের আইনের প্রতি শ্রদ্ধা বেড়ে যায় জানায় বাহারুল ইসলাম

খুলনা রেঞ্জ ডিআইজি’র কার্যালয়ে অগ্নিনির্বাপন মহড়া

খুলনা রেঞ্জ ডিআইজি’র কার্যালয়ে অগ্নিনির্বাপন মহড়া




খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার। 

খুলনা ব্যুরো প্রধান। 

২ সেপ্টেম্বর বুধবার  সকাল ১১টা হতে দুপুর ১টা পর্যন্ত খুলনা রেঞ্জ ডিআইজি’র কার্যালয়ে পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স, খুলনা এর যৌথ উদ্যোগে  অগ্নিনির্বাপন, উদ্ধার ও বহির্গমন মহড়া অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত মহড়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ড. খঃ মহিদ উদ্দিন বিপিএম(বার), রেঞ্জ ডিআইজি, বাংলাদেশ পুলিশ, খুলনা মহোদয়। খুলনা বিভাগীয় ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স এর সহযোগীতায় মহড়ায় আগুন নিয়ন্ত্রণ পদ্ধতি হাতে কলমে শিখানো হয়। এছাড়াও  বাসাবাড়িতে গ্যাস সিলিন্ডার ব্যবহারের নিরাপত্তা ও তা থেকে সৃষ্ট আগুন নিয়ন্ত্রণ করাসহ অগ্নিনির্বাপন এবং উদ্ধার কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জমাদির উপর প্রশিক্ষণ প্রদান করেন। মহড়া শেষে রেঞ্জ ডিআইজি মহোদয় বলেন, অগ্নিকাণ্ডসহ যে কোনো দুর্ঘটনা ও উদ্ধার অভিযানে পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিস যৌথভাবে দায়িত্ব পালন করে থাকে। পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের মধ্যে রয়েছে সৌহার্দ্যপূর্ণ পারস্পরিক পেশাগত সম্পর্ক। তিনি এ ধরনের একটি সফল মহড়া আয়োজনের জন্য ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স কর্তৃপক্ষসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

বীর মুক্তিযোদ্ধা ও অগ্নিপুরুষের প্যানেলকে বিজয়ী করতে হবে- এ্যাড আব্দুল লতিফ

 বীর মুক্তিযোদ্ধা ও অগ্নিপুরুষের প্যানেলকে বিজয়ী করতে হবে- এ্যাড আব্দুল লতিফ




মামুনুর রশিদ,দিনাজপুর প্রতিনিধি, আমরা বঙ্গবন্ধু সৈনিক। বঙ্গবন্ধুর আদর্শে গড়া সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনীত প্যানেল “কাজেম-সাইফুল” পরিষদ। এর বাইরে যারা দাঁড়িয়েছে। তারা আওয়ামী লীগের সিদ্ধান্তের বাহিরে। তাদের ভোট দেয়া যাবে না। আইনজীবী সমিতির চলমান উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে “কাজেম-সাইফুল” পরিষদ ভোট দিতে হবে। এ প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী এ্যাড. কাজেম উদ্দীন একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা। তিনি মুক্তিযুদ্ধের চেতনার একজন বলিষ্ঠ কর্মী। অপরদিকে সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী হাজী সাইফুল একজন নিবেদিত আওয়ামী লীগ যোদ্ধা। আমরা এক সময় মতিয়া চৌধুরীর বক্তব্য শুনতাম। তখন তাকে অগ্নিকন্যা বলা হতো। আজ হাজী সাইফুলের বক্তব্য শুনে মনে হলো- তিনি একজন “অগ্নিপুরুষ”। তার বক্তব্য হলো অগ্নিঝরা বক্তব্য। কাজেই আমাদের সবকিছু ভুলে এবার বীর মুক্তিযোদ্ধা ও অগ্নিপুরুষের প্যানেলকে বিজয়ী করতে হবে। এজন্য সকল আইনজীবীদের একাট্টা হয়ে কাজ করতে হবে। সবাই মিলে এক সাথে কাজ করলে আমাদের বিজয় কেউ ঠেকাতে পারবে না।

১ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার দিনাজপুর জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ ও সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের যৌথ উদ্যোগে এক নির্বাচনী সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে দিনাজপুর জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাড. আব্দুল লতিফ মিঞা উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ দিনাজপুর জেলা শাখার আহ্বায়ক ও বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ কেন্দ্রীয় সম্মেলন প্রস্তুত কমিটির সদস্য এ্যাড. হামিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে এতে বক্তব্য রাখেন, প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী এ্যাড. কাজেম উদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী এ্যাড. হাজী সাইফুল ইসলাম, পিপি এ্যাড. রবিউল ইসলাম রবি, এপিপি এ্যাড. শামসুর রহমান পারভেজ, সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের সদস্য সচিব এ্যাড. মেহেরুল ইসলাম প্রমুখ। 

উল্লেখ্য, ১৪২৭ বাংলা সনের কার্যকরী পরিষদের নির্বাচনে আগামী ৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ শনিবার সকাল ১০ টা হতে বিকাল ৩টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে দিনাজপুর জেলা আইনজীবী সমিতির ভোট গ্রহণ করা হবে।

মর্নিং নিউজ বিডি ফিচার রাইটিং প্রতিযোগিতা ২০২০

 মর্নিং নিউজ বিডি ফিচার রাইটিং প্রতিযোগিতা ২০২০




শিপন নাথ,চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:- আমরা কমবেশি সকলে লিখতে ভালোবাসি। লেখার মধ্যে ফুটে উঠে মনের গভীরে জমে থাকা হাজারো অনভূতি। লিখনিতে ফুটে উঠে গভীরতম মর্মবাণী। বিশ্ব কবি ববীন্দ্রনাথ, পল্লী কবি জসীমউদ্দিন সবাই তাঁদের লিখনীর মধ্যে চির স্মরণীয় হয়ে আছেন। মানুষ চিরকাল বেঁচে থাকে না। কিন্তু তার শ্রেষ্ঠ লিখনি শতাব্দীর পর শতাব্দী মানুষের মধ্যে বাঁচিয়ে রাখে।


আর এই মনের ভাব প্রকাশ ও সবার মাঝে স্মরণীয় হয়ে রাখার প্রত্যয়ে বাংলাদেশের অন্যতম অনলাইন নিউজ পোর্টাল মর্নিং নিউজ বিডির পক্ষ থেকে সমগ্র দেশব্যাপী তিনটি ধাপে ফিচার রাইটিং প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়েছে। উক্ত প্রতিযোগীতায় দেশের সকল জেলা থেকেই প্রতিযোগীরা অংশগ্রহণ করতে পারবেন। মর্নিং নিউজ বিডির পক্ষ থেকে ফিচার রাইটিং প্রতিযোগীতার বিজয়ীদের ৩টি ক্যাটাগরীতে বিভক্ত করা হবে। যথাক্রমে:-


-স্থানীয় পর্যায়ে (জেলা) সবাইকে কনটেন্ট ফিচার (যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ের ওপর প্লট) নিয়ে লেখা পাঠাতে হবে। 


- স্থানীয় পর্যায় থেকে যারা বিভাগীয় পর্যায়ে বিজয়ী হবেন তাদের সলো ফিচার (বিশেষ ব্যক্তিবর্গদের জীবনী নিয়ে) নিয়ে লেখা পাঠাতে হবে।


- বিভাগীয় পর্যায় থেকে যারা বিজয়ী হবেন তাদের  ন্যাচরাল ফিচার ( ঐতিহাসিক এবং ঐতিহ্যবাহী গুরুত্বপূর্ণ স্থান)  নিয়ে লেখা পাঠাতে হবে।


প্রতিযোগীতাটি আগামী ০৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলমান থাকবে। উক্ত আয়োজনটি সকল ফিচার লেখকদের জন্যে উন্মুক্ত। একজন প্রতিযোগী সবগুলো ক্যাটাগরিতেই অংশগ্রহণ করতে পারবে। 


প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের নির্দেশনাবলী:


- প্রথমেই morningnewsbd-র গ্রুপে প্রতিযোগীতার পোস্টটিতে নিজ নিজ বন্ধু তালিকার সবাইকে ম্যানশন করতে হবে। 


- ফিচার লিখে ডক ফাইলটি সেন্ড করতে হবে literature.morningnewsbd@gmail.com- এই ঠিকানায়। ফিচারের শেষে  নাম, প্রতিষ্ঠান, বিভাগ,ইমেইল ঠিকানা এবং ফোন নাম্বার উল্লেখ করতে হবে।


-প্রতিযোগীতায় বিচারকমন্ডলীর সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত ।


- বাছাইয়ের ক্ষেত্রে বিচারকদের ফলাফল অনুযায়ী স্থানীয় পর্যায়ের বিজয়ীরা বিভাগীয় পর্যায়ে উন্নীত হবে। বিভাগীয় থেকে জাতীয় পর্যায়ে বিজয়ী ঘোষণা করা হবে। সুতরাং, বিজয়ীদের ৩ ধাপে ভিন্ন ভিন্ন কনটেন্টে ফিচার লিখে প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণ করতে হবে। 


- জাতীয়ভাবে বিজয়ী প্রথম তিনজন পাবেন সনদপত্রসহ পুরস্কার। স্থানীয় এবং জেলা পর্যায়ের বিজয়ীদের জন্য রয়েছে সনদপত্র।


সময়সীমা:- ০৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং।


- সকল বিষয়ে মর্নিং নিউজ বিডির ফিচার আহ্বায়ক কমিটির সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত।

মধুপুর তরুণ প্রজম্মের অহংকার ছাত্র নেতা আসাদুজ্জামান (আসাদ) আকন্দ

মধুপুর তরুণ প্রজম্মের অহংকার ছাত্র নেতা আসাদুজ্জামান  (আসাদ) আকন্দ




মো: আ: হামিদ মধুপুর টাঙ্গাইল প্রতিনিধিঃ


টাঙ্গাইলের মধুপুরে তরুণ প্রজম্মের অহংকার মেধাবী ছাত্র নেতা অন্যয়ের প্রতিবাদ কারী সকলের ভালোবাসার পাত্র হিসেবে পরিচিত। মধুপুর শহর ছাত্রলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আসাদুজ্জামান  (আসাদ) আকন্দ। ছাত্র রাজনৈতির শুরু থেকেই তিনি ছাত্রদের বিভিন্ন কাজেই অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছেন। মধুপুর শহর ছাত্রলীগের কর্মীদের মাধ্যমে জানা যায় কলেজের ভর্তি থেকে শুরু করে স্বচ্ছ রাজনৈতি বিশ্বাসি এই তরুণ ছাত্র নেতা গরিব মেধাবী ছাত্রদের পরিক্ষার ফিস সহ বই, কাগজ-কলম ইত্যাদি শিক্ষা উপকরণ প্রদান করে থাকেন। 

মধুপুর সরকারী কলেজ ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হৃদয় হাসান জানান, তিনি আমাদের ছাত্র রাজনিতিতে স্বচ্ছ রাজনিতি করার উৎসাহ উদ্দিপনা দিয়ে আসছেন। তার উৎসাহ উদ্দীপনা বুকে ধারণ করেই আমরা মধুপুর উপজেলা ছাত্রলীগ, মধুপুর সরকারী কলেজ ছাত্রলীগ ও পৌর ছাত্রলীগকে সুসংগঠিত করার লক্ষে তিনি অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। তার এই অক্লান্ত পরিশ্রমকে স্বার্থক করার লক্ষ্যে আমরা সকলেই এক যুগে কাজ করে যাচ্ছি। ছাত্র নেতা আসাদুজ্জামান  (আসাদ) আকন্দ জানান সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মাহমানব জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান এর নীতি ও আদর্শকে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে আমি মধুপুর ছাত্র সমাজকে সুসংগঠিত করার লক্ষে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি। শিক্ষা নিয়ে গড়বো দেশ, শেখ হাসিনার বাংলাদেশ। এই স্লোগানকে বাস্তবায়ন করতে আমি বা আমরা মধুপুর উপজেলা, পৌরসভা, ইউনিয়নে সদা তৎপর। ছাত্রলীগ অস্ত্র দিয়ে নয় কলম দিয়ে যুদ্ধ করবে। মাদক মুক্ত তরুণ সমাজ গড়তে ছাত্রলীগের কার্যক্রম থাকবে প্রশংসানীয় । শিক্ষা, শান্তি, প্রগতির বার্তা ছড়িয়ে দিতে চাই প্রত্যেকটা ছাত্রলীগ নেতাকর্মীর মাঝে।

কোটচাঁদপুরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এক জনের মৃত্যু!

কোটচাঁদপুরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এক জনের মৃত্যু!





খোন্দকার আব্দুল্লাহ বাশার। 

খুলনা ব্যুরো প্রধানঃ

ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মহিদুল ইসলাম (৪৭) নামে এক সার্ভেয়ারের মৃত্যু হয়েছে। তিনি এলাঙ্গী ইউনিয়নের বলাবাড়িয়া গ্রামের মোহাম্মদ মন্ডলের ছেলে। এই নিয়ে করোনা ভাইরাসে ঝিনাইদহে ৩১ জনের মৃত্যু হলো। এদিকে কুষ্টিয়ার পিসিআর ল্যাব থেকে বুধবার সকালে পাঠানো ৩৭টি নমুনার মধ্যে ১০ জনের করোনা পজিটিভ এসেছে। আক্রান্তদের মধ্যে শৈলকুপায় ৩, কালীগঞ্জে ৫ ও মহেশপুরে ২ জন রয়েছে। এই নিয়ে জেলার ৬ উপজেলায় মোট আক্রান্তর সংখ্যা দাড়ালো ১৬৬২ জনে। তাছাড়া এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছে ১০২৩ জন। ঝিনাইদহ অস্থায়ী করোনা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে ১৮ জন রোগী। ঝিনাইদহ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপপরিচালক মোঃ আব্দুল হামিদ খান বুধবার এক ই-মেইল বার্তায় জানান, করোনা উপসর্গ নিয়ে মহিদুল ইসলাম গত ৭ আগষ্ট হাসপাতালে ভর্তি হন। ২৪ আগষ্ট তার শরীরে করোনা ভাইরাস ধরা পড়ে। তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু ঘটে। বুধবার সকালে জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ ও পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতায় ঝিনাইদহ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কোটচাঁদপুরের ফিল্ড সুপারভাইজার মাওলানা আসাদুল্লাহ’র নেতৃত্বে লাশ দাফন কমিটি মহিদুলের মৃতদেহ বলাবাড়িয়া গ্রামের পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হয়। ঝিনাইদহ ইসলামিক ফাউন্ডেশন গঠিত লাশ দাফন কমিটি এ পর্যন্ত ৫২ জন করোনা আক্রান্ত ও করোনা উপসর্গ মৃত ব্যক্তিকে দাফন করেছে বলে প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উপপরিচালক মোঃ আব্দুল হামিদ খান উল্লেখ করেন।

যশোরে অস্ত্রসহ ডাকাত দলের চার সদসস্য আটক

যশোরে অস্ত্রসহ ডাকাত দলের চার সদসস্য আটক




মোরশেদ আলম

যশোর প্রতিনিধিঃ

যশোরে দু’টি ডাকাতির ঘটনায় আন্তঃজেলা ডাকাত দলের চার সদস্যকে গ্রেফতার করেছে জেলা পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) শাখার সদস্যরা।  

সোমবার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। তাদের কাছ থেকে অস্ত্র-গুলি, নগদ টাকা ও লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার উদ্ধার করা হয়েছে। মঙ্গলবার পুলিশ সুপারের কনফারেন্স রুমে সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানান পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আশরাফ হোসেন।

আটককৃতরা হচ্ছেন-সাতক্ষীরার কালীগঞ্জ উপজেলার শংকরপুর গ্রামের আব্দুল জব্বারের ছেলে বাহার আলী তরফদার (৪০), শ্যামনগর উপজেলার জয়নগর গ্রামের আনছার গাজীর ছেলে শফিকুল ইসলাম ওরফে রেজাউল ওরফে গুড্ডু (৪০), আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা শ্বেতপুর গ্রামের মৃত মকছেদ সরদারের ছেলে আব্দুস সালাম সরদার (৫৫) ও যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার মির্জাপুর গ্রামের মৃত ইসমাইল হোসেনের ছেলে তহিদুর রহামান ওরফে কালু।


পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন জানান, গত ২৩ আগস্ট মনিরামপুর উপজেলার পলাশী গ্রামের মনির হোসেনের বাড়িতে ও ২৮ আগস্ট ঝিকরগাছা উপজেলার নির্বাসখোলা গ্রামের রানা বিশ্বাসের বাড়িতে ডাকাতি হয়। এ ঘটনায় ওই দুই পরিবার ৭ লাখ ৬২ হাজার টাকার মালামাল লুটের অভিযোগে পৃথক দুটি মামলা করেন। মামলা দুটি গোয়েন্দা পুলিশ তদন্ত শুরু করে। এরপর ডিবি পুলিশের ওসি সৌমেন দাসের নেতৃত্বে সোমবার ৩১ আগস্ট ভোররাতে শার্শা উপজেলার নাভারণ সাতক্ষীরা মোড়ে অভিযান চালিয়ে আন্তজেলা ডাকাত দলের প্রধান বাহার আলী তরফদার ও তার সহযোগী সালাম সরদারকে আটক করা হয়। এদের স্বীকারোক্তি মোতাবেক শার্শা উপজেলার বারিপোতা গ্রামে জনৈক কাদেরে বাড়ি অভিযান চালিয়ে শফিকুল ইসলাম গুড্ডুকে আটক করা হয়। পরে তাদের দেয়া তথ্য মতে ঝিকরগাছা উপজেলার মির্জাপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে অপর সদস্য শার্শা উপজেলার রেলবাজারের তন্নি জুয়েলার্সের মালিক তহিদুর রহমান কালুকে আটক করা হয়। এসময় তাদের কাছ থেকে একটি ওয়ান শুট্যার গান, এক রাউন্ড গুলি, একটি এয়ারগান, নগদ এক লাখ ৭৯ হাজার টাকা, আড়াই ভরি স্বর্ণালংকারসহ ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত সরাঞ্জম উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ সুপার আরো জানান, আটককৃতদের ডাকাতির মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে নতুন মামলা করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাহ উদ্দিন সিকদার, মনিরামপুরের এ এসপি সার্কেল সোয়েব আহম্মেদ, নাভারণ সার্কেলের এ এস পি জুয়েল ইমরান, ডি আই ওয়ান মশিউর রহমান, ওসি ডিবি সৌমেন দাস, এস আই শামিম প্রমুখ।

চট্টগ্রাম পতেঙ্গা এলাকায় ইনকন্ট্রেড ডিপুতে বিস্ফোরণ! ৩ জন নিহত এবং আহত ২ জন

চট্টগ্রাম  পতেঙ্গা এলাকায়  ইনকন্ট্রেড ডিপুতে বিস্ফোরণ! ৩ জন নিহত এবং আহত ২ জন





চট্টগ্রাম প্রতিনিধি

 মোঃ হাসান  রিফাত 


 ০২/০৯/২০২০ইং,১১ঃ৩০ ঘটিকায় ইনকন্ট্রেড ডিপুতে,ট্রলি ও পাওয়ারের গেরেজে,একটা পাওয়ার ওয়ারলিং করার সময়,ওই পাওয়ারের তেলের টাংকি লিক ছিল,ওয়ারলিংয়ের ছিটা লিক করা টাংকিতে পরে ব্লাস্ট হয়।


৩ জন ঘঠনা স্থলে মারা যান  ,২ জন গুরতর আহত।

জানা গেছে আহত ২ জনের বাড়ি বিজয় নগর।

নওগাঁর আত্রাইয়ে দুর্দিনে এখন মৃৎশিল্পীরা

 নওগাঁর আত্রাইয়ে দুর্দিনে এখন মৃৎশিল্পীরা




মোঃ ফিরোজ হোসাইন 

 রাজশাহী ব্যুরো


 নওগাঁ আত্রাই থেকে: করোনা ভাইরাসের প্রভাবে ভালো নেই নওগাঁর আত্রাই উপজেলার মৃৎশিল্পীরা। উপজেলার ছোট যমুনা নদীর ও আত্রাই নদীর  তীরবর্তী দাঁড়িয়ে থাকা ভবানীপুর ও নন্দনালী পালপাড়া যেন শিল্পীর তুলিতে আঁকা একটি স্বর্ণালী ছবি। উপজেলার ভবানীপুর, রাইপুর, মিরাপুর, সাহেবগঞ্জ, বেওলা, পাঁচুপুর নন্দনালী সহ বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে অসংখ্য কুটির নয়নাভিরাম মৃৎ শিল্পীদের বাসস্থান। যা সহজেই সবার মনকে পুলকিত করে। আর এ মৃৎশিল্প’র ঐতিহ্য আঁকড়ে থাকা পাল বংশের লোকদের টিকে থাকা যেন কঠিন হয়ে পড়েছে।


এক সময় এ গ্রামগুলিতে মৃৎশিল্প’র জৌলুস ছিল। এ শিল্পে জড়িয়ে ছিল এখানের শতাধিক পরিবার। হাতে গোনা কয়েকটি পরিবার কষ্টে-শিষ্টে তাদের পূর্ব-পুরুষদের এ পেশা ধরে রেখেছেন। কিন্তু বর্তমানে করোনা ভাইরাসের কারনে সম্পুর্নরুপে বন্ধ হয়ে গেছে এ মাটির কাজ। তাই এই কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় অনকেই হতাশা হয়ে পড়েছে। এক সময় উপজেলার এসব গ্রামসহ আশেপাশের বিভিন্ন এলাকার পরিবারও প্রত্যক্ষভাবে এ শিল্পের সাথে জড়িত ছিল। হাড়ি, পাতিল, কলসি, ব্যাংক, পিঠা তরির ছাঁচ, পুতুলসহ ছোট-ছোট খেলনা ইত্যাদি সব জিনিসপত্র তৈরি করতে। এখানকার তৈরি মৃৎশিল্পর অনেক সুনাম ও সুখ্যাতি থাকলেও এখন শুধুমাত্র দধির পাত্র ও পিঠার খালা তৈরি করে কোন রকমে জীবিকা নির্বাহ করে আসছে। এ অঞ্চল থালা পাত্রের কদর বেশী রয়েছে। একটি থালা তৈরিতে মাটি ও পোড়ানো বাবদ প্রায় ৫ টাকা খরচ হলেও তা বাজারে বিক্রি হয় ১০ টাকা। এর মধ্যই রয়েছে শ্রম ও মাল বহনের খরচ। ফলে লাভের মুখ তারা দেখে না। অথচ ঐ একটি থালা এক হাতে ঘুরে বাজারে খুচরা ক্রেতা কিনছে ২০ থেকে ৩০ টাকা। ফলে সহজেই অনুমেয় মূল মুনাফা চলে যাচ্ছে মধ্যস্বত্ব ভোগীদের হাতে।

ন্যায্য দাম না পাওয়ায় মৃৎশিল্পীরা এ পেশার প্রতি হতাশ পূর্ব-পুরুষদের এ পেশা ধরে রেখেছেন। কিন্তু বর্তমানে করোনা ভাইরাসের কারনে সম্পুর্নরুপে বন্ধ হয়ে গেছে এ মাটির কাজ। তাই এই কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় অনকেই হতাশা হয়ে পড়েছে। এক সময় উপজেলার এসব গ্রামসহ আশেপাশের বিভিন্ন এলাকার পরিবারও প্রত্যক্ষভাবে এ শিল্পের সাথে জড়িত ছিল। হাড়ি, পাতিল, কলসি, ব্যাংক, পিঠা তরির ছাঁচ, পুতুলসহ ছোট-ছোট খেলনা ইত্যাদি সব জিনিসপত্র তৈরি করতে। এখানকার তৈরি মৃৎশিল্পর অনেক সুনাম ও সুখ্যাতি থাকলেও এখন শুধুমাত্র দধির পাত্র ও পিঠার খালা তৈরি করে কোন রকমে জীবিকা নির্বাহ করে আসছে। এ অঞ্চল খালা পাত্রের কদর বেশী রয়েছে। একটি খালা তৈরিতে মাটি ও পোড়ানো বাবদ প্রায় ৫ টাকা খরচ হলেও তা বাজারে বিক্রি হয় ১০ টাকা। এর মধ্যই রয়েছে শ্রম ও মাল বহনের খরচ। ফলে লাভের মুখ তারা দেখে না। অথচ ঐ একটি খালা এক হাতে ঘুরে বাজারে খুচরা ক্রেতা কিনছে ২০ থেকে ৩০ টাকা। ফলে সহজেই অনুমেয় মূল মুনাফা চলে যাচ্ছে মধ্যস্বত্ব ভোগীদের হাতে।

ন্যায্য দাম না পাওয়ায় মৃৎশিল্পীরা এ পেশার প্রতি হতাশ। ফলে স্বাভাবিকভাবেই বর্তমান প্রজন্ম এ ঐতিহ্যবাহী মৃৎশিল্পের প্রতি আগ্রহ হারাচ্ছে। মৃৎশিল্পের নিপুণ কারিগররা তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে এখন অনেকটা অসহায় ও মানবেতর জীবন যাপন করছে। অনেক পুরুষ এ পেশা ছেড়ে বিভিন্ন পেশায় চলে গেছেন। মাটির তৈরি জিনিসপত্র আগের মত দামে বিক্রি করতে পারছে না। মাটির এ সকল পাত্রের চাহিদাও আগের মত নেই। নন্দমালী  গ্রামের মৃৎশিল্পের কারিগর বাবু কুমার পাল বলেন, ‘লাভ লসের হিসাব করি না। বাপ-দাদার কাজ ছাড়ি কি করে। করোনার আমাদের সকল কাজ বন্ধ হয়ে গেছে।

আমরা এখন অসহায় জীবন যাপন করছি। তিনি আরো বলেন, ‘পূর্বপুরুষের পেশা বাঁচিয়ে রাখতে গিয়ে করোনায় দ্রব্যমূল্যের উর্ধগতির বাজার পরিবার পরিজন নিয়ে খুব কষ্টে দিন কাটছে আমাদের। এ ব্যাপারে উপজেলার ভবানীপুর পালপাড়া গ্রামের মৃৎশিল্পী শ্রী ধিরেদ্রনাথ পাল বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে নদী-খাল ভরাট হয়ে যাওয়ায় এখন মাটি সংগ্রহ করতে অনেক খরচ হয় । এ ছাড়াও জ্বালানির মূল্য বেড়ে যাওয়ায় উৎপাদন ও বিক্রির সঙ্গে মিল না থাকায় প্রতিনিয়ত লোকসান গুনতে হয় । তার মধ্যে আবার করোনার প্রভাব পড়েছে এখন কাজ কর্ম সব বন্ধ আমরা এখন অসহায় হয়ে পড়ছি।


এক কালের ঐতিহ্যেরু মাটির তরি বাসন, হাড়ি, পাতিল, কলুসি, ব্যাংক, পিঠা তরির ছাঁচ, পুতুল এখন প্যাস্টিকের দখলে। ফলে উপজেলার শত বছরের ঐতিহ্যবাহী মৃৎশিল্পের জৌলুস আর নেই। সরকারী পৃষ্ঠপোষকতার অভাবে এ শিল্প হারিয়ে যেতে বসেছে। ঐতিহ্যের কারণেই মৃৎশিল্পকে টিকিয়ে রাখা দরকার বলে মনে করেন উপজেলার সচেতন মহল।

মেহেদীর জন্মদিনকে কেন্দ্র করে নতুনধারার কর্মসূচী পালিত

 মেহেদীর জন্মদিনকে কেন্দ্র করে নতুনধারার কর্মসূচী পালিত





প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ নতুনধারা বাংলাদেশ এনডিবির চেয়ারম্যান মোমিন মেহেদীর জন্মদিনকে কেন্দ্র করে সপ্তাহব্যাপী খাবার বিতরণ সহ বিভিন্ন কর্মসূচী পালিত হয়েছে। ২৮ আগস্ট জন্মদিন হলেও কর্মসূচীটি শুরু হয় ২৪ আগস্ট প্রেসিডিয়াম মেম্বার অধ্যাপক শুভঙ্কর দেবনাথের উদ্বোধনী বক্তব্যর মধ্য দিয়ে। প্রতিদিন নিজের হাতে রান্না করে নেতাকর্মীদেরকে সাথে নিয়ে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের টিএসসি, শাহবাগ, পুরানা পল্টন, কাকরাইলের ভাসমান নিরন্ন মানুষদের মাঝে খাবার প্রদানের মধ্য দিয়ে এই কর্মসূচীর সমাপ্তি হয় ৩১ আগস্ট । তোপখানা রোডস্থ দলীয় কার্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠিত কর্মসূচীর সমাপ্তি সভায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে বক্তব্য রাখেন প্রেসিডিয়াম মেম্বার বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান শান্তা ফারজানা, ভাইস চেয়ারম্যান চন্দন সেনগুপ্ত, মহাসচিব নিপুন মিস্ত্রি প্রমুখ। 

এসময় বক্তারা বলেন, নিজের হাতে রান্না করে রাজপথে থাকা অভূক্ত ভাসমান মানুষদেরকে খাবার দেয়ার যে নজীর নতুনধারার রাজনীতির প্রবর্তক মোমিন মেহেদী দেখিয়েছেন, তা হাজার বছরের ইতিহাসে উজ্জ্বল হয়ে থাকবে। তিনি মওলানা ভাসানী, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ সকল দেশ-মানবিক যুদ্ধে অবতীর্ণ নেতাদের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপনের রাজনীতির মধ্য দিয়ে দারিদ্র-দুর্নীতি-সন্ত্রাস-খুন-গুমমুক্ত সমৃদ্ধ দেশ গড়তে বদ্ধ পরিকর হয়ে কাজ করছেন। নতুন প্রজন্ম ক্রমশ সাহসের সাথে তাঁর রাজনৈতিক কর্মসূচীর সাথে সম্পৃক্ত হচ্ছে। ছাত্র-যুব-জনতার রাজনৈতিক মেলবন্ধন নতুনধারা বাংলাদেশ এনডিবি বরাবরই গণমানুষের জন্য নিবেদিত ছিলেঅ, আগামীতেও থাকবে। 

উল্লেখ্য, ১৯৮৫ সালের ২৮ আগস্ট ময়মনসিংহে জন্মগ্রহণকারী মোমিন মেহেদী’র পৈত্রিক নিবাস বরিশালের মেহেন্দীগঞ্জে হলেও লেখালেখি ও রাজনৈতিক কর্মকান্ডের মধ্য দিয়ে তিনি রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে স্বনামে পরিচিত। তিনি ১৯৯৫ সালে দৈনিক ইত্তেফাকে লেখা প্রকাশের মধ্য দিয়ে লেখালেখি শুরু। বিদ্যালয় ছাত্র সংসদে সংগঠক হিসেবে রাজনৈতিকজীবন শুরু হয়; এরপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়নকালীন সময়ে ২০০৪ সালে সাংগঠনিকভাবে বাংলাদেশের রাজনীতিতে শীর্ষ একটি ছাত্র সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বেও ছিলেন। সাথে সাথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রিক শিক্ষা-সাহিত্য-সাংস্কৃতিক-সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবি সংগঠন সাউন্ডবাংলা’র নির্বাহী পরিচালক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র অধিকার আন্দোলন জোটের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। স্বাধীনতার স্বপক্ষের রাজনীতিক ও লেখক হিসেবে বাংলাদেশের সকল পত্র পত্রিকায় তিনি নিয়মিত লিখে চলেছেন। তার প্রকাশিত গ্রন্থের সংখ্যা ৬২। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য বড়দের জন্য- ডিভোর্স (২০০৪), শকুনেরা উড়ছে (২০০৫), কাকতুড়–য়ার দেশে (২০০৭), এই চাকাটা ভালোবাসার (২০০৭) ইত্যাদি ও ছোটদের জন্য +ভূত-ভয়, বাবা, কাগজের ভূত, বাংলাদেশে স্বপ্ন ইত্যাদি। তিনি শিক্ষা-সাহিত্য-সাংস্কৃতিক-সামাজিক-স্বেচ্ছাসেবি ও রাজনৈতিক অঙ্গনে বিশেষ অবদানের জন্য অগ্নীবীণা স্বর্ণ পদক ২০০১, অনিবার্ণ পদক ২০০২, জাতীয় কবি নজরুল সম্মাননা ২০০৫, কবিগুরু পদক ২০০৭, কবি সুফিয়া কামাল পদক ২০০৮, সিএমএম-স্বপ্নালোক পদক ২০০৮, ইউএনজিপি এ্যাওয়ার্ড ২০০৯, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংস্কৃতি সম্মাননা ২০১০, বঙ্গবন্ধু সম্মননা ২০১১, ন্যাশনাল ডায়ালড এ্যাওয়ার্ড ২০১২, আনন্দ সভা(ভারত) ২০১৩, নাট্যসভা সম্মননা ২০১৪, বেস্ট এশিয়ান রাইর্টার্স এ্যাওয়ার্ড ২০১৫  সহ বিভিন্ন পদক ও সম্মাননা পেয়েছেন। নতুন প্রজন্মের রাজনৈতিক ধারা নতুনধারা বাংলাদেশ-এনডিবি’র প্রতিষ্ঠাতা মোমিন মেহেদী কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান এসবিটেল-এর সিইও হিসেবে দায়িত্ব পালনের মধ্য দিয়েও নতুন প্রজন্মের শিল্প উদ্যেক্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। 

সাতক্ষীরা জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতির পদ থেকে এডভোকেট শাহনাজ পারভিন মিলি বহিষ্কার

সাতক্ষীরা জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতির পদ থেকে এডভোকেট শাহনাজ পারভিন মিলি বহিষ্কার




প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগ সাতক্ষীরা জেলা শাখার সহ-সভাপতির পদ হতে বেস্ট টিম এর আহবায়ক এডভোকেট শাহনাজ পারভীন মিলিকে বহিস্কার করা হয়েছে। 

আজ  মঙ্গলবার (১ সেপ্টম্বর ২০২০)  বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগ, সাতক্ষীরা জেলা শাখার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এডভোকেট. ফরিদা আক্তার বানু ও সাধারণ সম্পাদক জ‌্যোৎস্না আরা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয় সাতক্ষীরা জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি তার পরিচালিত বেস্ট টিম নামে একটি বিতর্কিত সংগঠন তাদের বিতর্কিত কর্মকাণ্ড, জেলা ব্যাপী বিতর্ক সৃষ্টি করে মহিলা আওয়ামী লীগের সুনাম ক্ষুন্ন করে আসছে, তাকে বার বার সতর্ক করা হলেও তিনি কোন কর্ণপাত না করে তাদের বিতর্কিত কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছিলো। দু'ট ঘটনায় তার এবং তার স্বামী মোস্তাফিজুর রহমান এর নামে মামলা হলে, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ তাকে বাহিস্কারের সিদ্ধান্তে উপনীত হয়।

আশাশুনিতে মামলায় স্বাক্ষী হওয়ায় চেয়ারম্যান লিটনের নির্দেশে পা ভেঙ্গে দেওয়ার অভিযোগ

 আশাশুনিতে মামলায় স্বাক্ষী হওয়ায় চেয়ারম্যান লিটনের নির্দেশে পা ভেঙ্গে দেওয়ার অভিযোগ



আহসান উল্লাহ বাবলু উপজেলা  প্রতিদিনঃ    আশাশুনি উপজেলার আনুলিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলমগীর আলম লিটনের বিরুদ্ধে মামলা হওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে ,মামলার স্বাক্ষী হারুন শিকারীকে চেয়ারম্যানের নির্দেশে প্রকাশ্যে দিবালোকে অর্তকিত হামলা চালিয়ে দু’পা ভেঙ্গে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার রাজাপুর বৌবাজার সানা এন্টারপ্রাইজে এ লোমহর্ষক ঘটনা ঘটে। বিভিন্ন সুত্রে জানাগেছে আনুলিয়া ্ইউনিয়নে ৪নং ওয়ার্ডে দীর্ঘদিনের বঞ্চিত ইউপি সদস্য শাহাবুদ্দীন সানা বিগত ১০বছরের আনুলিয়া ইউনিয়নের আলমগীর আলম লিটনের স্বেচ্ছাচারিতা, অনিয়ম ,দূনীতির ফিরিস্তি তুলে ধরে গত ৬ আগষ্ট-(৭) নং মামলা সাতক্ষীরা স্পেশাল জজ আদালতে দায়ের করেন।


মামলাটি বিজ্ঞ আদালত দুদকের চেয়ারম্যানের উপর তদন্তভার অর্পন করেন। মামলা হওয়ার পর দূনীতি বাজ চেয়ারম্যান ও তার একান্ত সহযোগী ইউপি সদস্য আলম, শতকাত হোসেন , জিয়ারুল ও সুজনসহ ১০/১২জনের একটি সন্ত্রাসী বাহিনী এ অর্তকিত হামলা চালিয়েছে। এর মধ্যে মামলার বাদী ও স্বাক্ষীদের দফায় দফায় জীবন নাশের হুমকী অব্যহত রেখেছে। এ নিয়ে চেয়ারম্যান লিটনসহ তার পরিষদবর্গদের নামে থানায় জিডি করা হয়েছে (যার জিডি নং-৫৬০)। সেসুবাদে মধ্যম একসরার মৃত জেহের আলী শিকারীর ছেলে হারুন শিকারী স্বাক্ষী হওয়ায় তার উপর দীর্ঘদিন চাপ সৃষ্টি করায় রাজি না হওয়ায় এ পর্যায় এই বর্বরোচিত হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে বলে ক্ষতি গ্রস্থ পরিবার জানিয়েছেন।এ ব্যাপারে আনুলিয়া ইউনিয়নের আ’লীগের সাধারন সম্পাদক ফারুক হোসেনর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন বিগত ১১সাল হতে অদ্যবধি চেয়ারম্যান লিটনের অনিয়ম দূনীতির কথা আমি যদি বলি আপনারা সাংবাদিকরা লিখে শেষ করতে পারবেন না। তার ক্ষমতার দাপট সন্ত্রাসী বাহিনী আনুলিয়া ইউনিয়নের অসহায় সুবিধা বঞ্চিত মানুষকে জিম্মি করে রেখেছে । বিচারের নামে ইউনিয়টিতে চলছে জুলুম অত্যাচার আর নির্যাতন। আমি আ’লীগের পক্ষ থেকে জেলা পর্যায়ের নেতৃবৃন্দের কাছে সরেজমীনে তদন্ত পূর্বক তার দলীয় পদ থেকে অব্যহতি দিয়ে ইউনিয়নের মুজিব আদর্শের সৈনিকদের পুনঃউজ্জিবিত করার করার দাবী জানাই। পাশাপাশি যে কোন মুহুর্তে আমি সহ আমার পরিবার চেয়ারম্যান লিটনের সন্ত্রাসী বাহিনী কর্তৃক জানমাল হারানোর সম্ভবনা বিদ্যমান বলে আমি মনে করি। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত খবর পেয়ে আশাশুনি থানার ওসি মোহাম্মদ গোলাম কবির ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন বলে জানাগেছে।

বড়উঠান ইউনিয়ন পরিষদ পরিদর্শন করলেন ইউএনও শাহিন সুলতানা

 বড়উঠান ইউনিয়ন পরিষদ পরিদর্শন করলেন  ইউএনও শাহিন সুলতানা

 



চট্টগ্রাম  প্রতিনিধি,, 


চট্টগ্রাম কর্ণফুলী উপজেলার ২নং বড়উঠান ইউনিয়ন পরিষদ পরিদর্শন করেছেন উপজেলার ইউএনও। আজ মঙ্গলবার ইউএনও শাহিন সুলতানা ইউনিয়ন পরিষদ পরিদর্শন করেন। এসময় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সুকান্ত সাহা উপস্থিত ছিলেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান বড়উঠান ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোহাম্মদ দিদারুল অালম , সচিব ওমর ফারুক, ইউপি সদস্য হারুন তালুকদার,নাজিম সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।


এসময় পরিষদের হলরুমে বিভিন্ন চিত্র প্রদর্শনীর মাধ্যমে লোকাল গভর্মেন্ট সাপোর্ট প্রজেক্ট(এলজি এসপি)’র বিভিন্ন উন্নয়ন কর্ম-কান্ড প্রত্যক্ষ ও পর্যালোচনা করেন। এ সময় শাহিনা সুলতানা ইউনিয়ন পরিষদের কার্যক্রম নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেন, এবং সহযোগিতার অাশ্বাস দেন।

দাম্মাম-ঢাকা ১০ সেপ্টেম্বর এর বিশেষ ফ্লাইটের রেজিস্ট্রেশন চালু!

দাম্মাম-ঢাকা ১০ সেপ্টেম্বর এর বিশেষ ফ্লাইটের রেজিস্ট্রেশন চালু!




মোহাম্মদ বেলাল উদ্দিন সিনিয়র  স্টাফ রিপোর্টার 


দাম্মাম-ঢাকা ১০ সেপ্টেম্বর এর বিশেষ ফ্লাইটের রেজিস্ট্রেশন চালু হয়েছে! (রেজিস্ট্রেশন লিংক)

দাম্মাম থেকে ঢাকামুখী আগামী ১০ সেপ্টেম্বর এর বিশেষ ফ্লাইটের জন্য রেজিস্ট্রেশন চালু করা হয়েছে। যারা যারা রেজিস্ট্রেশন করবেন তারাই এই ফ্লাইটের টিকিট কিনতে পারবেন। কেবলমাত্র নির্দিষ্ট সংখ্যক প্রবাসীই এই ফ্লাইটের টিকিটের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন, রেজিস্ট্রেশন এর লিমিট পূর্ণ হয়ে গেলে টিকিটের রেজিস্ট্রেশন বন্ধ করে দেয়া হবে।


সৌদি আরবে বর্তমানে বন্ধ রয়েছে সকল আন্তর্জাতিক ফ্লাইট, এরফলে সৌদি আরবে আটকে পড়া দেশে ফিরতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের দেশে ফিরিয়ে আনতে বেশ কিছুদিন ধরেই সৌদি আরবের বিভিন্ন শহর থেকে বিশেষ ফ্লাইটের আয়োজন করেছে বিমান বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের বাংলাদেশ এমব্যাসি

আগামী ১০ সেপ্টেম্বর এর দাম্মাম-ঢাকা এর বিশেষ ফ্লাইটের টিকিট পাবার জন্য আগ্রহী প্রবাসীদের নিজেদের নাম, পাসপোর্ট নম্বর এবং অন্যান্য সকল তথ্য দিয়ে রেজিস্ট্রেশন ফর্ম পূরণ করতে হবে। নির্দিষ্ট সংখ্যক রেজিস্ট্রেশন পূর্ণ হয়ে গেলে রেজিস্ট্রেশন বন্ধ করে দেয়া হবে। রেজিস্ট্রেশনকারী প্রবাসীরা পরবর্তীতে বিমান বাংলাদেশ এর দাম্মাম অফিস থেকে নিজেদের অরিজিনাল পাসপোর্ট প্রদর্শন করে টিকিট কিনতে পারবেন


দাম্মাম-ঢাকা এর এই ফ্লাইটের ইকোনমি ক্লাসের জন্য ভাড়া ধার্য করা হয়েছে ২১৫০ সৌদি রিয়াল, এবং বিজনেস ক্লাসের ভাড়া ৩০০০ সৌদি রিয়াল। ইকোনমি ক্লাসের যাত্রীরা ফ্রিতে ২ পিস লাগেজ (সর্বমোট ৪৫ কিলো) এবং ৭ কিলো ওজনের একটি হ্যান্ডব্যাগ, এবং বিজনেস ক্লাসের যাত্রীরা ২ পিস লাগেজ (সর্বমোট ৫৫ কিলো) এবং ৭ কিলো ওজনের একটি হ্যান্ডব্যাগ বহন করতে পারবেন।


এছাড়াও যাত্রীরা এর বাইরেও ৪০০ সৌদি রিয়ালের বিনিময়ে ১ টি ২৩ কিলো ওজনের লাগেজ অতিরিক্ত বহন করতে পারবেন।

পটিয়া পৌরসভা আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগের পুর্নাঙ্গ কমিটি, নেতৃবৃন্দের অভিনন্দন

 পটিয়া পৌরসভা আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগের পুর্নাঙ্গ কমিটি, নেতৃবৃন্দের অভিনন্দন





সেলিম চৌধুরী পটিয়া প্রতিনিধিঃ নব নির্বাচিত বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ পটিয়া পৌরসভার পূর্ণাঙ্গ কমিটির সভাপতি আওয়ামী রাজনীতির রাজপথের সাহসী সৈনিক শফিকুল ইসলাম শফি ও সাবেক মেধাবী ছাত্রনেতা সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মাদ জয়নাল আবেদীনসহ ৫১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটির নেতৃবৃন্দ এক বিবৃতিতে জাতীয় সংসদের হুইপ পটিয়ার এমপি আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরী, কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি এডভোকেট আসাদুজ্জামান দুর্জয়, কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সভাপতি  আলমগীর আলম পটিয়া উপজেলা পৌরসভা আওয়ামীলী যুবলীগসহ সকল  নেতৃবৃন্দ কে ফুকের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়ে ব'লেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও জাতীয় সংসদের হুইপ আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরীর উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন পটিয়া পৌরসভার আওয়ামীমুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ পুর্ঙ্গ কমিটির  সকল নেতৃবৃন্দ।