ভোলা জেলা ইতিহাস গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

নিউজ ডেস্কঃ ভোলা জেলা ইতিহাস গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে তোফায়েল আহমেদ
লেখক মুহাম্মদ শওকাত হোসেন তার মেধা, শ্রম
দিয়ে ভোলা জেলার ইতিহাস উপহার দিয়েছেন

ভোলা জেলার ইতিহাস গ্রন্থ নামে যে বইটি প্রকাশিত হয়েছে তাতে আমি অত্যন্ত খুশি। এই গ্রন্থের লেখক আলহাজ্ব মু. শওকাত হোসেন এই গ্রন্থ প্রকাশে অনেক পরিশ্রম করেছে। তিনি বস্তুনিষ্ঠ, নিরপেক্ষভাবে ভোলার ইতিহাস তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। এই বইটি পড়লে ভোলার ইতিহাস সম্পর্কে জানতে পারবেন। আমি শওকাতকে স্বাগত জানাই। তিনি তার মেধা, শ্রম দিয়ে ভোলা জেলার ইতিহাস উপহার দিয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার ভোলা জেলার ইতিহাস গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন ও প্রকাশনা উৎসব অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি (ভার্চ্যুয়াল) বক্তব্যে সাবেক শিল্প ও বানিজ্যমন্ত্রী আলহাজ্ব তোফায়েল আহমেদ এসব কথা বলেন।
আজকের ভোলা কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও ভোলা জেলার ইতিহাস গ্রন্থের লেখক আলহাজ্ব মুহাম্মদ শওকাত হোসেনের সভাপতিত্বে গেস্ট অব অনার হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদ প্রশাসক আলহাজ্ব আবদুল মমিন টুলু।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জেলা পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার, জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ রেজাউল করিম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মামুন আল ফারুক, ভোলা সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর গোলাম জাকারিয়ার, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোশারেফ হোসেন, ভোলা পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব মোহাঃ মনিরুজ্জামান মনির, জেলা আওয়ামী লীগের ১নং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জহুরুল ইসলাম নকীব, ভোলা সরকারি মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর রুহুল আমিন জাহাঙ্গীর, সাবেক সিভিল সার্জন ডাক্তার আবদুল মালেক, ঢাকাস্থ ভোলা সদর উপজেলা সমিতির সভাপতি গোলাম কিবরিয়া জাহাঙ্গীর, ভোলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এম হাবিবুর রহমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন, আজকের ভোলা কল্যাণ ফাউন্ডেশনের নির্বাহী সদস্য এড. সাহাদাত হোসেন শাহিন।
তালহা তালুকদার বাঁধনের সঞ্চালনায় এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ কামাল উদ্দিন চৌধুরী, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি আলহাজ্ব আমিনুল ইসলাম খান, প্রবীন সাংবাদিক এম এ তাহের, সিনিয়র আইনজীবী এডভোকেট সৈয়দ আশরাফ হোসেন লাবু, এডভোকেট একে এম শাজাহান, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার শফিকুল ইসলাম, ভোলা কমিউনিষ্ট পার্টির সভাপতি মোবাশ্বের উল্লাহ চৌধুরী, এ রব স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাফিয়া খাতুন, ইলিশা মডেল কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ মাজাহারুল ইসলাম, ভোলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক অমিতাভ রায় অপু, ভোলা সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক মোঃ শফিকুল ইসলাম, চরনোয়াবাদ মুসলিম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক মুহাম্মদ আবু তাহের, ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের নেতা মাওলানা তাজ উদ্দিন ফারুকী, বীরশ্রেষ্ঠ মোস্তফা কামাল মহাবিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ মোঃ সেলিম আহমেদ, বিশিষ্ঠ শিল্পী মনির চৌধুরী, ভেদুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাসান মিজানুর রহমান মিঠু, হোসাইনিয়া প্রি-ক্যাডেট স্কুলের প্রধান শিক্ষক মাওঃ মোঃ আব্বাস উদ্দিন, এডভোকেট খায়ের উদ্দিন সিকদার, ব-দ্বীপ ফোরামের সভাপতি মীর মোশারেফ হোসেন অমি প্রমুখ। এসময় রাজনৈতিক, শিক্ষক, সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন। দোয়া মুনাজাত পরিচালনা করেন, হাফেজ বনি আমিন। পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন, মাওঃ তাজ উদ্দিন ফারুকী।
এসময় অন্যান্য বক্তারা বলেন, ইতিহাস রচনা একটি কঠিন ও দুসাধ্য কাজ। ইতিহাস বের করতে হলে সে বিষয়ের উপর অনেক জানা শুনা ও পারদর্শি হতে হয়। দৈনিক আজকের ভোলার সম্পাদক আলহাজ্ব মুহাম্মদ শওকাত হোসেন সেই কঠিন কাজটিকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছে। দীর্ঘদিন তিনি মেধা, শ্রম ও অর্থ দিয়ে ভোলা জেলার ইতিহাস রচনা করেছেন। তিনি চেষ্টা করেছেন নিরপেক্ষভাবে ভোলার সঠিক ইতিহাস তুলে ধরার। এর আগে ভোলার ইতিহাস নিয়ে আরও দুটি বই প্রকাশিত হয়েছে। কিন্তু শওকাত হোসেন রচিত ভোলা জেলার ইতিহাস বইটি আপডেট। এখানে ভোলার অজানা অনেক ইতিহাস উঠে এসেছে। এই বইটি পড়লে বুঝা যায় সে শওকাত হোসেন সাহেব এটার পেছনে কত সময় ব্যয় করেছেন। ভোলার বর্তমান প্রজন্ম এমন একটি ইতিহাসের অপেক্ষায় ছিলো। সেটি শওকাত হোসেনের কল্যাণ ভোলাবাসী পেয়েছে। ভোলা জেলার ইতিহাস গ্রন্থের লেখক আলহাজ্ব মুহাম্মদ শওকাত হোসেনকে এমন একটি সমৃদ্ধশালী বই উপহার দেওয়ার জন্য অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দ তাকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান।

শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট