দিনাজপুরে ধানের সবুজ ক্ষেতে ইঁদুর তাড়াতে পলিথিনের ঝান্ডা




মামুনুর রশিদ,দিনাজপুর প্রতিনিধি ॥ দিনাজপুরে সবুজে ভরে উঠেছে ইরি-বোরো ফসলের মাঠ। কোথাও এতটুকুও ফাঁকা নেই, যতদুর দৃষ্টি পড়ে সবুজ আর সবুজ। মওসুমের ইরি-বোরো ক্ষেতে দেখা দিয়েছে ইঁদুরের উপদ্রব। তাই ক্ষেতকে ইঁদুরের উপদ্রব থেকে বাঁচাতে কৃষকেরা ব্যবহার করছেন এক ধরনের পলিথিনের ঝান্ডা। বাতাসে পলিথিন পতপত করে শব্দ করলে কেউ আসার ভয়ে ইঁদুর সেখান থেকে পালিয়ে যায়। এমন ধারণা থেকেই অনেক কৃষক তাদের জমিতে পলিথিনের ঝান্ডা ব্যবহার করছেন।
দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার নশরতপুর ইউনিয়নের গো-ঘাটার পাড় দোলার মধ্যে অনেক কৃষকদের ইরি-বোরো ক্ষেতে পলিথিনের ঝান্ডা ব্যবহার করতে দেখা গেছে। এ ধরনের পলিথিনের ঝান্ডা জেলার বিভিন্ন এলাকার ধান ক্ষেতে দেখা যাচ্ছে।
চিরিরবন্দরের নশরতপুর গ্রামের নজরুল পাড়ার কৃষক মোজাম্মেল হক জানান, কৃষি বিভাগের পরামর্শক্রমে ক্ষেতে পলিথিনের নিশানা উড়িয়ে উপকার পেয়েছেন। ধানের ক্ষেতে কিছু দুরত্ব বজায় রেখে একটি লাঠির সাথে পলিথিন বেধে রেখে দেয়া হয়। বাতাসে পলিথিন উড়ার শব্দে কেউ আসছে ভেবে ইঁদুর পালিয়ে যায়।
এছাড়াও ওইপাড়ার ফারুক হোসেন, গুড়িয়াপাড়ার সুদের রায়, বালাপাড়ার সুশিল চন্দ্র দাস, তেঁতুলিয়া গ্রামের শাহ্পাড়ার আবদুল খালেক তাদের জমিতেও এই পলিথিনের ঝান্ডা ব্যবহার করেছেন।
চিরিরবন্দর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবীদ মো. মাহমুদুল হাসান জানান, ক্ষেতের পোকামাকড় ও ইঁদুরের উপদ্রব থেকে ফসল রক্ষা করার জন্য কৃষকরা বিভিন্ন পদ্ধতি ব্যবহার করে থাকেন। ইদুঁর তাড়াতে কৃষক ছাড়াও মাঠ পর্যায়ে কৃষি অফিসের উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তারাও কাজ করছেন।##


শেয়ার করুন
পূর্ববর্তী পোষ্ট
পরবর্তী পোষ্ট