টাঙ্গাইলে ব্যবসায়ী নেতাদের সাথে জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা

টাঙ্গাইলে ব্যবসায়ী নেতাদের সাথে জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা
টাঙ্গাইলে ব্যবসায়ী নেতাদের সাথে জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা
ডা.এম.এ.মান্নান 
টাংগাইল জেলা প্রতিনিধি:
টাঙ্গাইলে চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি ও বিভিন্ন মার্কেট দোকান মালিক সমিতি ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের সাথে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

আজ ৭ এপ্রিল বুধবার দুপুরে জেলা  প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা প্রশাসক ড. মো: আতাউল গনির সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) শফিকুল ইসলাম, সিভিল সার্জন ডা: আবুল ফজল , টাঙ্গাইল পৌরসভার মেয়র এস এম সিরাজুল হক  আলমগীর, টাঙ্গাইল সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শাহজাহান আনসারী,টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক খন্দকার আশরাফুজ্জামান স্মৃতি, জেলা  চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি খান আহমেদ শুভ ও অন্যান্য ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ। 

চলিত লকডাউনে দোকান খোলা রাখার বিষয়ে ব্যবসায়ীদের দাবির প্রেক্ষিতে জেলা প্রশাসক বলেন, যেহেতু এটা সরকারি সিদ্ধান্ত, তাই সরকারি সিদ্ধান্ত মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে। সবাইকে সরকারি সিদ্ধান্ত মেনে চলার আহ্বান জানান টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসক।

মেহেরপুরে আবারোও নতুন করে ৭ জন (কোভিড-১৯) এ আক্রান্ত

মেহেরপুরে আবারোও নতুন করে ৭ জন (কোভিড-১৯) এ আক্রান্ত

তানভীর আহমেদ, মেহেরপুর জেলা প্রতিনিধি: মেহেরপুর জেলায় আবারোও নতুন করে ৭ জনের   করোনা ভাইরাস পজেটিভ  এসেছে।
আজ মেহেরপুর সিভিল সার্জন ডাঃ নাসির উদ্দিন জানান, জেলায় গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে ৭ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে  সদর উপজেলার ৪ জন ও গাংনী উপজেলার ৩ জন। এ নিয়ে জেলায় মোট করোনা রোগী সংখ্যা দাঁড়াল বর্তমানে ৪৬ জনে। এর মধ্যে সদর উপজেলার ৩১ জন, গাংনী উপজেলার ১৩ জন ও মুজিবনগর উপজেলার ২ জন ।   এ নিয়ে মেহেরপুর জেলায় সর্বমোট প্রাপ্ত রিপোর্ট সংখ্যা ৬ হাজার ২ শ ১৪ টি। এদের মধ্যে  সুস্থ  হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৭ শ জন এবং মৃত্যুবরণ করেছে ১৭ জন।

বড়লেখায় আগামীকাল বড়লেখা,জুড়ী, কুলাউড়ার আংশিক এলাকায় বিদ্যুৎ থাকবে না

বড়লেখায় আগামীকাল বড়লেখা,জুড়ী, কুলাউড়ার আংশিক এলাকায় বিদ্যুৎ থাকবে না

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার পল্লী বিদ্যুতের সম্মানিত গ্রাহকসদস্যগণকে জানানো যাচ্ছে যে, আগামীকাল ৮ এপ্রিল ২০২১ খ্রি. রোজ বৃহস্পতিবার কুলাউড়া গ্রীডে উন্নয়নমূলক কাজের জন্য বড়লেখা,জুড়ী এবং কুলাউড়া-আংশিক উপজেলার আওতাধীন সমস্ত এলাকায় সকাল ৮:০০ টা থেকে দুপুর ২:০০ টা পর্যন্ত বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ থাকবে। গ্রাহক সদস্যদের সাময়িক এই অসুবিধার জন্য কর্তৃপক্ষ আন্তরিকভাবে দুঃখিত এবং ধৈর্য ধরে বর্ণিত কাজে সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।
অনুরোধক্রমে: কর্তৃপক্ষ মৌলভীবাজার পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি।

পোরশায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে আবারোও ৫০ টি গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে বিনামূল্যে নতুন পাকা বাড়ি

পোরশায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে আবারোও ৫০ টি গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে বিনামূল্যে নতুন পাকা বাড়ি

মোঃ রাকিব  উপজেলা  প্রতিনিধিঃ নওগাঁ জেলার পোরশা উপজেলা সদর থেকে উত্তরে দুই কিলোমিটার দূরে প্রাকৃতিক মনোরম পরিবেশে উপজেলা প্রশাসন এর তত্বাবধানে মাননীয় খাদ্য মন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এর নির্দেশনায় গড়ে উঠছে ‍গৃহহীনদের জন্য নতুন আবাসন ব্যবস্থা।

সরে জমিনে গিয়ে দেখা যায়,  ইতিমধ্যে প্রায় ৩৭ টি পাকা ঘর তৈরি করা হয়েছে। আরোও ঘর তৈরির কাজ দ্রুত গতীতে এগিয়ে চলেছে। দ্বিতীয় ধাপে এবার ৫১টি  গৃহহীন পরিবার পাচ্ছে নতুন বাড়ি (ঘর)। এর আগে প্রথম ধাপে এ উপজেলায় ৫৪ টি গৃহহীন পরিবার পায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ‍উপহার নতুন ঘর।

৩০এপ্রিল-২০২১ এর মধ্যেই বাড়ি ঘর তৈরির সমস্ত কাজ শেষ হবে বলেও আশাবাদী এ কাজে সার্বক্ষনিক দায়িত্বে নিয়োজিত থাকা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজমুল হামিদ রেজা।
বুধবার বিকেলে উপজেলার নিতপুর গোপালগঞ্জ  (শোভাপুর) গ্রামে চলমান কাজের পরিদর্শনে এসে এ কথা বলেন তিনি।

ফিদেল নাইম'র সুরে ওয়াহেদ শাহীন'র সঙ্গীতে নতুন গানে বাপ্পা মজুমদার

ফিদেল নাইম'র সুরে ওয়াহেদ শাহীন'র সঙ্গীতে নতুন গানে বাপ্পা মজুমদার

যাযাবর পলাশঃ এই সময়ের সবচেয়ে ব্যস্ততম মেধাবী সঙ্গীতপরিচালক ওয়াহেদ শাহীন এর সঙ্গীতায়োজনে নতুন একটি গানে কণ্ঠ দিলেন দেশের স্বনামধন্য গুণী সঙ্গীতশিল্পী বাপ্পা মজুমদার। ওয়াহেদ শাহীন এর সঙ্গীতায়োজনে এই প্রথম গাইলেন বাপ্পা।
অসাধারণ কিছু মন ছুঁয়ে যাওয়া কথামালা দিয়ে সাজানো এই গানের গীতিকথা লিখেছেন গীতিকবি শেখ নজরুল। আর গানটিতে সুরারোপ করেছেন জনপ্রিয় সুরকার ও কণ্ঠশিল্পী ফিদেল নাইম। 
আসছে ঈদ উপলক্ষে বাপ্পা মজুমদার এর গাওয়া নতুন এই গানটি মিউজিক ভিডিও সহ প্রকাশিত হবে। স্বনামধন্য প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এইচএম ভয়েস এর অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে গানটি মুক্তি পাচ্ছে বলে জানালেন সঙ্গীত পরিচালক ওয়াহেদ শাহীন। 
নতুন এই গান  প্রসঙ্গে তিনি বললেন, বাপ্পা দা আমার দারুণ পছন্দের একজন শিল্পী। খুব যত্ন নিয়ে সঙ্গীতায়োজনটি করার চেষ্টা করেছি। আর বাপ্পা দার অসাধারণ গায়কী যেন গানটিকে আরও প্রানবন্ত করে তুলেছে। সবমিলিয়ে খুব ভালো একটি গান উপহার দিতে যাচ্ছি ইনশাআল্লাহ।
এ প্রসঙ্গে বাপ্পা মজুমদার বলেন, গানের কথা ও সুর অনেক ভালো লেগেছে। আর সঙ্গীতায়োজনটিও মনের মতো হয়েছে। গানটি সবার ভালো লাগবে বলেই আমার বিশ্বাস।

গুলবাগপুর (বেলে দাড়ি) গ্রামের সুইচগেট ও খাল খনন প্রকল্পের নামে জমি জবর দখলের অভিযোগ!

গুলবাগপুর (বেলে দাড়ি) গ্রামের সুইচগেট ও খাল খনন প্রকল্পের নামে জমি জবর দখলের অভিযোগ!

স্টাফ রিপোর্টার: গুলবাগপুর (বেলেদাড়ি) গ্রামের সুইচগেট ও খাল খনন প্রকল্পের নামে জমি জবর দখলের অভিযোগ উঠেছে। ঘটনা  সূত্রে জানা যায় যশোর জেলার ঝিকরগাছা উপজেলার ১নং গঙ্গানন্দপুর ইউনিয়নের গুলবাগপুর (বেলে দাড়ি) গ্রামের ব্রিজের উপর সুইচগেট ও খাল খনন প্রকল্পের নামে জমির জবরদখলের অভিযোগ এনে আজ (৭ ই এপ্রিল)   নির্বাহী প্রকৌশলী যশোর এর বরাবর একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন উক্ত প্রকল্পের আওতাধীন জমির প্রকৃত মালিকগণ।

উক্ত অভিযোগনামায় লিখিতভাবে বলা হয় (অভিযোগ এর কপি)

জনাব,  যথাবিহিত সম্মান প্রদর্শনপূর্বক বিনীত নিবেদন এই যে ,আমরা নিম্নস্বাক্ষরকারী ব্যক্তিবর্গ, যশোর জেলার ,ঝিকরগাছা উপজেলাধীন ১নং গঙ্গানন্দপুর ইউনিয়নের গুলবাগপুর গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা। সম্প্রতি আপনার অধীনে গুলবাগপুর গ্রামের উত্তরপাড়া (বেলেদাড়ি) কপোতাক্ষ নদের সাথে সংযুক্ত খালের ব্রিজে স্লুইস গেটসহ খাল খনন প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে বলে আমরা জানতে পেরেছি। প্রকৃতপক্ষে গুলবাগপুর মৌজার, ১৫৪ ও ১৫৫ দাগে উল্লেখিত জমির মালিক আমরা নিম্নস্বাক্ষরকারী ব্যক্তিবর্গ । এই ব্রিজের উত্তর দক্ষিণ পাশের সকল জমির মালিক আমরা নিম্ন স্বাক্ষরকারীগণ । উল্লেখ্য যে উক্ত জমির মালিক আমরা হওয়া সত্বেও আমাদের অজান্তে কে বা কাহারা আমাদের নাম ও স্বাক্ষর জাল করে উক্ত প্রকল্প বাস্তবায়নকল্পে একটি সমিতি গঠন পূর্বক মিথ্যা অঙ্গীকারনামা ও উক্ত জমির মালিক সেজে আমাদের সাথে জাল-জালিয়াতি করে বর্ণিত জমি জবর দখলের চেষ্টা করছে। প্রকৃতপক্ষে এখানে কোন সরকারি খালের নামে বা খালের জমির নামে কোন জমি নাই । সকল জমির মালিক আমরা নিম্ন স্বাক্ষরকারীগণ  এমনকি খালের উপরে ব্রীজের উত্তর-দক্ষিণ দিক থেকে আসার রাস্তাটি ব্রীজের দুই মাথায় শেষ হয়। উক্ত ব্রিজ টি সম্পূর্ণভাবে ব্যক্তিমালিকানাধীন (আমাদের) জমির উপরে তৈরি।

অতএব, আপনার কাছে আকুল আবেদন উপরোক্ত সমস্যাটি বিবেচনা পূর্বক সঠিকভাবে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতে আপনার একান্ত মর্জি হয়।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে একাধিক ভুক্তভোগীরা জানান অভিযোগটি সম্পূর্ণ সত্য এবং অভিযোগের কপির অনুলিপি আরও আটটি দপ্তরে প্রেরণ করা হয়েছে ।সঠিকভাবে তদন্ত হইলে সত্য ঘটনা বের হয়ে আসবে। ভুক্তভোগীরা সঠিক তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।

কিশোরগঞ্জে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবকের আত্মহত্যা

কিশোরগঞ্জে  গলায় ফাঁস দিয়ে  যুবকের  আত্মহত্যা

মোঃ লাতিফুল আজম
কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী) প্রতিনিধি: নীলফামারী কিশোরগঞ্জ উপজেলায় শফিকুল ইসলাম (৩৫) নামে এক যুবকের গলায় ফাঁস দেয়া অবস্থায় সদর ইউপির কেশবার পার্শ্ববর্তী গ্রামের সিট রাজিব বাংলা বাজার নামক স্থান থেকে ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

আজ বুধবার সকাল ১০টায় ওই ইউপি'র সিট রাজিব বাংলা বাজার  আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় বন্যা আশ্রয় কেন্দ্রের সামনের আমগাছ থেকে  এ ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত শফিকুল সদর ইউপি'র কেশবা গ্রামের মৃত্যু আতিয়ার রহমানের ছেলে। নিহতের স্বজনরা জানান, শফিকুল গত কাল মঙ্গলবার  বিকেল ৩ টায়  রণচন্ডী ইউপি'র খদ্দের  পাড়া গ্রামের শ্বশুর আলয়  জালাল উদ্দিনের  বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বেড়িয়ে যান। বুধবার সকালে লোক মুখে গলায় ফাঁস দিয়ে তার মৃত্যুর খবর জানতে পারেন। তাদের দাবি তিনি একজন মানসিক ভারসাম্যহীন রোগী এবং দীর্ঘদিন যাবৎ  মৃগী রোগে ভুগছিলেন, এর আগেও তিনি একাধিকবার আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। তারা আরও  বলেন, তিনি পরিবারবর্গ কে ভরণপোষণ দিতে না পারায় ইতোমধ্যে  দুই স্ত্রী তাকে ছেড়ে চলে গেছেন,  তৃতীয় স্ত্রী দুই সন্তান কে নিয়ে রংপুরের বাসা বাড়িতে ঝিয়ের কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। এ ব্যাপারে  কিশোরগঞ্জ থানা সাব-ইন্সপেক্টর (এস আই) আক্কেল আলী  বলেন,মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে   হত্যা না আত্মহত্যা জানা যাবে।

কুলাউড়ায় দোকানপাট খুলে দেওয়ার দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান

কুলাউড়ায় দোকানপাট খুলে দেওয়ার দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান

মোঃরেজাউল ইসলাম শাফি,কুলাউড়া উপজেলা প্রতিনিধিঃ ব্যবসায়ীদের ফের ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার হাত থেকে রক্ষা করতে ও লকডাউন প্রত্যাহার করে স্বাস্থ্য বিধির নিয়ম রেখে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া শহরের সকল ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান করেছে ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতি।

বুধবার (৭এপ্রিল) দুপুরের দিকে কুলাউড়া ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির নেতৃবৃন্দসহ বাজারের ব্যবসায়ীরা পৌর শহরের চৌমুহনীতে সংক্ষিপ্ত বিক্ষোভ সভা শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেন।

সমিতির নেতৃবৃন্দ ও স্মারকলিপি থেকে জানা যায়, করোনা সংক্রমণ রোধে ২০২০ সালের মার্চ থেকে দেশে লকডাউন দেওয়া হয়। এসময় সারাদেশের ন্যায় কুলাউড়ারও সকল ব্যবসা প্রতিষ্ঠান একটানা দেড়মাস বন্ধ রাখা হয়। ওই সময় রমজান ও ঈদকে সামনে রেখে কুলাউড়া বাজারের বস্ত্র কসমেটিক্স এবং জুতার ব্যবসায়ীরা ব্যাংক ও বিভিন্ন স্থান থেকে ঋণ করে দোকানে পণ্য তুলেন। কিন্তু লকডাউনে ব্যবসায়ীরা চরম আর্থিক ক্ষতিগ্রস্থ হোন। সরকার রমজানের ঈদের আগে লকডাউন সীমিত করে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ব্যবসা পরিচালনার নির্দেশ দিলে কয়েকদিন কুলাউড়ায় ব্যবসা করলেও লোকসান পোষাতে পারেন নি। লকডাউন ও করোনার প্রভাবে লোকসান পোষাতে ব্যবসায়ীরা এবারে রোজা ও ঈদকে লক্ষ্য করে আবারো ধার দেনা করে দোকানে পণ্য তুলেছিলেন। কিন্তু গত ৫ তারিখ থেকে দেশে ফের লকডাউন দেওয়ায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। কুলাউড়া বাজারের প্রায় ৫ শতাধিক বস্ত্র, হোটেল, জুতা ও কসমেটিক্সসহ বিভিন্ন দোকানপাট বন্ধ রয়েছে। কিন্তু সরকারের পক্ষ থেকে শিল্প কারখানা, নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান খোলা থাকায় মানুষ ঘরের বাহিরে ঘোরাফেরা করছেন। এতে করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে যে লকডাউন দেওয়া হয়েছে সেটা কোন কাজেই আসছেনা। উল্টো আরো ব্যবসায়ীরা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। তাই ব্যবসায়ীদের কথা চিন্তা করে লকডাউন প্রত্যাহার করে স্বাস্থ্যবিধি নির্দেশনা দিয়ে সীমিত পরিসরে হলেও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলে দেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর কাছে জানান ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দরা।

বিক্ষোভ শেষে ব্যবসায়ীদের পক্ষে কুলাউড়া ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি বদরুজ্জামান সজল ও সম্পাদক আতিকুর রহমান আখই স্বাক্ষরিত একটি স্মারকলিপি প্রধানমন্ত্রী বরাবরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যেমে প্রদান করা হয়। এসময় শহরের ব্যবসায়ী ও সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এটি এম ফরহাদ চৌধুরী জানান, আমার মাধ্যমে ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির নেতারা প্রধানমন্ত্রী বরাবরে একটি স্মারকলিপি দিয়েছেন। স্মারকলিপিটি আমি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের  নিকট পৌঁছাবো।

রাজাপুরে দূরবৃত্তদের দেওয়া আগুনে দোকানে পুড়ে ছাঁই, লক্ষাদিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি

রাজাপুরে দূরবৃত্তদের দেওয়া আগুনে দোকানে পুড়ে ছাঁই, লক্ষাদিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি

মো. নাঈম, ঝালকাঠি প্রতিনিধি: ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার বড় কৈবর্তখালী গ্রামের আঃ রব ফরাজির দূরবৃত্তদের দেওয়া আগুনে দোকান পুড়ে ছাঁই। ব্যবসায়ী আঃ রব ফরাজির দাবি, আগুনে প্রায় লক্ষাদিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। বুধবার আনুমানিক রাত ১:৩০মিনিটের দিকে এ ঘটনা ঘটে। ব্যবসায়ী আঃ রব ফরাজি জানান প্রতিদিনের মতো আমি রাতে দোকান বন্ধ করে বাসায় যাই খাওয়া দাওয়া শেষ করে ঘুমিয়ে যাই, বুধবারকে রাত আনুমানিক ১:৩০ মিনিটের সময় এলাকার লোকজন হঠাৎ ডাক চিৎকার দেয় আগুন লেগেছে বলে আমি দরজা খুলে বের হওয়ার চেষ্টা করি কিন্তু দূরবৃত্তরা
আমার ঘরের সকল দরজার বাহির থেকে ছিটকানি লক করে দেয়। এলাকাবাসী এসে আমার দরজার বাহির থেকে ছিটকানি খুলে আমাকে বের করে এবং দোকানের আগুন খালের পানি দিয়ে নিবাতে সক্ষম হয়েছে। কে বা কাহারা আমার ঘরের সকল দরজার ছিটকানি লক করে আমার দোকানের তালা ভেঙ্গে টাকা পয়সা মালজিনিস নিয়ে যায় এবং দোকানে আগুন দেয় এতে আমার লক্ষাদিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এবিষয় রাজাপুর থানার ডিউটি অফিসার জানান অভিযোগ পাওয়া গেছে তদন্ত সাপেক্ষ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

হিলিতে ভোক্তা অধিকার আইনে ৩ ব্যাবসায়ীর জরিমানা

হিলিতে ভোক্তা অধিকার আইনে ৩ ব্যাবসায়ীর জরিমানা

কৌশিকচৌধুরী,হিলি প্রতিনিধিঃদিনাজপুরের হিলিতে হালনাগাদ মূল্য তালিকা না টাঙানোয় ও স্যাম্পলের ঔষধ বিক্রির দায়ে ৩টি দোকানকে ১৩ হাজার টাকা জরিমানা করেছে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তর। বুধবার দুপুরে র‌্যাবের সহায়তায় হিলি বাজারে অভিযান পরিচালনা করা হয়।

দিনাজপুরের ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরের সহকারি পরিচালক মমতাজ বেগম জানান, নিয়মিত বাজার তদারকির অংশ হিসেবে হিলি বাজারে অভিযান চালানো হয়েছে। এসময় নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মুল্য তালিকা হালনাগাদ করছে কিনা এবং তা প্রদর্শন করা হচ্ছে কিনা। সেই সাথে ঔষধের দোকানগুলোতে স্যানিটাইজার, মাস্ক সরবরাহ কতটুকু এবং দাম বেশি রাখা হচ্ছে কিনা সেবিষয়ে আমরা তদারকি করছি।

হালনাগাদ মুল্য তালিকা না টাঙানোর অপরাধে হিলি বাজারের দুটি মুদিদোকানিকে ৮ হাজার টাকা ও স্যাম্পলের ঔষধ বিক্রির দায়ে ১টি ঔষধের দোকানকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এই অভিযান অব্যাত থাকবে বলে জানান তিনি।

ঝিকরগাছা সরকারি এম.এল. মডেল হাই স্কুলের শিক্ষার্থীর চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স

ঝিকরগাছা সরকারি এম.এল. মডেল হাই স্কুলের শিক্ষার্থীর চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স

আফজাল হোসেন চাঁদ : যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার মধ্যে ৭জন শিক্ষার্থী বিভিন্ন মেডিকেল কলেজে চান্স পেয়েছে।  যার মধ্যে ঐতিহ্যবাহী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ঝিকরগাছা সরকারি এম.এল. মডেল হাই স্কুলের ২০১৮ সালে এসএসসি পরিক্ষায় জিপিএ-৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থী মোঃ জহির উদ্দিন নয়ন চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ব বিদ্যালয় এ চান্স পেয়েছেন। এছাড়াও সে যশোরের নতুনহাট পাবলিক কলেজের শিক্ষার্থী ছিলেন। যশোর সদর উপজেলার মালঞ্চী গ্রামের দরিদ্র রিক্সা চালক মোঃ জালাল উদ্দিন গাজী ও গৃহিনী মোছাঃ শাহানার বেগমের ছেলে।
মেডিকেলে চান্স পাওয়ার বিষয়ে মোঃ জহির উদ্দিন নয়ন বলেন, আমি ভালো ডাক্তার হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলার প্রত্যয় নিয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ব বিদ্যালয় আবেদন করে ছিলাম। আর সেখানেই সবার দোয়াতে চান্স পেয়েছি। আমি ভালো চিকিৎসক হয়ে অসহায় মানুষের পাশে থেকে সেবা করতে চাই।

ঝিকরগাছা সরকারি এম.এল. মডেল হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক মোঃ মোস্তাফিজুর রহমার আজাদ বলেন, আমাদের প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী চট্টগ্রাম মেডিকেল বিশ্ব বিদ্যালয় চান্স পেয়েছে এতে আমাদের প্রতিষ্ঠানের সকল শিক্ষক আনন্দিত। মোঃ জহির উদ্দিন নয়ন'র নিকটে আমাদের দাবী সে যেন মেডিকেল থেকে ভালো ভাবে পড়াশুনা করে ভালো মানুষ, ভালো ডাক্তার ও ভালো সেবক হয়ে সবার পাশে থাকে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ঝিকরগাছা সরকারি এম.এল. মডেল হাই স্কুলের সভাপতি আরাফাত রহমান বলেন, আমাদের প্রতিষ্ঠানের সম্মান রেখেছে। আমি তার জন্য দোয়া করি, স্রষ্ঠা যেন তাকে (মোঃ জহির উদ্দিন নয়ন) নিদৃষ্ট স্থানে পৌছে দেন।

দেশের বিভিন্ন স্থানে ভাঙচুরের প্রতিবাদে নলছিটিতে পথসভা

দেশের বিভিন্ন স্থানে ভাঙচুরের প্রতিবাদে নলছিটিতে পথসভা

মো. নাঈম ঝালকাঠি প্রতিনিধি: দেশের বিভিন্ন স্থানে হেফাজত ইসলাম'র জ্বালাও,পোড়াও এবং ভাঙচুরের প্রতিবাদে নলছিটিতে পথসভা করেছে আওয়ামী লীগ এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন। ৭ এপ্রিল বুধবার সকাল ১১টায় দিকে নলছিটি পৌর শহরের সাথীর মোড়ে এ পথসভা অনুষ্ঠিত হয়। নলছিটি পৌরসভার মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল ওয়াহেদ খানের নেতৃত্বে এ পথসভায় উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, শ্রমিক লীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

কালিয়ায় ভ্রাম্যমান আদালতে ইয়াবা সেবনকারীর ৩ মাসের কারাদন্ড ও জরিমানা

কালিয়ায় ভ্রাম্যমান আদালতে ইয়াবা সেবনকারীর ৩ মাসের কারাদন্ড ও জরিমানা

মোঃআজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টা নড়াইল: নড়াইলের কালিয়া উপজেলার পেড়লী কালীতলা থেকে জুয়েল রানা (২৯) নামে এক মাদক সেবীকে ১ পিচ ইয়াবা ও সেবনের সরঞ্জামাদিসহ আটক করে ভ্রাম্যমান আদালতে সোপর্দ করেছে  উপজেলার পেড়লী ক্যাম্প পুলিশ। ৬ এপ্রিল (মঙ্গলবার) রাত ৮ টার দিকে তাকে আটক করা হয়। জুয়েল রানা উপজেলার জামরিলডাঙ্গা গ্রামের তাহেরুল ইসলাম নান্নুর ছেলে।
পুলিশ সুত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের  ভিত্তিতে পেড়লী পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই রেজাউল ইসলামের নেতৃত্বে একটি চৌকস দল পেড়লী কালীতলা থেকে জুয়েল রানাকে মাদক সেবনরত অবস্থায় ১ পিচ ইয়াবা ও সেবনের সরঞ্জামাদিসহ আটক করে। আটকপূর্বক তাকে ভ্রাম্যমান আদালতে সোপর্দ করা হলে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ নাজমুল হুদা তাকে দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় ৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড ও এক হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ৫ দিনের কারা‌‌‌দন্ডের আদেশ দেন।

মধুপুরে পাঁকা রাস্তায় দাঁপিয়ে চলছে ভেকু

মধুপুরে পাঁকা রাস্তায় দাঁপিয়ে চলছে  ভেকু

 আঃ হামিদ মধুপুর টাঙ্গাইল প্রতিনিধি: টাঙ্গাইলের মধুপুর চাপড়ী রোডের আকাশী নামক স্থানে লোহার চাকা লাগানো মাটি খনন যন্ত্র ভেকু চালিয়ে পাঁকা রাস্তা নষ্ট করে প্রতিনিয়ত দাঁপিয়ে চলছে এ মাটি খনন যন্ত্র ভেকু। জানা যায়,  ভেকুর মালিক এলাকার প্রভাবশালী ব্যাক্তি হওয়ায় তার বিরুদ্ধে কথা বলতেও সাহস পাচ্ছে না এলাকার লোকজন। 
সারা মধুপুর জুড়ে চলছে মাটি কাটার মহাউৎসব। ফসলের জমি কেটে পুকুর খনন করে সেই মাটি বিক্রি বরা হচ্ছে বিভিন্ন ইটের ভাটায়। প্রশাসনিক কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় মাটি বিক্রির দালালদের হাতে জিম্মি হয়ে পড়েছে সাধারণ মানুষ। জনসাধারণের রাস্তা   ভেঙে বাসাবাড়ি ধূলোয় নিমজ্জিত করে এই মাটি যাচ্ছে বিভিন্ন ইটের ভাটাায়।এ ব্যাপারে উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করছেন এলাকাবাসী।

নড়াইলের কালিয়া নজরুল কে গুলির ঘটনায় অস্ত্রসহ যুবক আটক

নড়াইলের কালিয়া নজরুল কে গুলির ঘটনায় অস্ত্রসহ যুবক আটক

মো: আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টার নড়াইলঃনড়াইলের কালিয়া উপজেলার পুরুলিয়া ইউনিয়ন কৃষক লীগ সভাপতি নজরুল ইসলাম খানকে (৪৮) গুলির ঘটনার ২৪ ঘন্টর মধ্যেই ঘটনার সাথে জড়িত দুই তরুনকে আটক করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে অভিযুক্ত ওই দুই তরুনকে আটকের পর তাদের স্বীকারোক্তি মোতাবেক ছিনতাইকৃত চার লক্ষাধিক টাকা মুল্যের শুটিং গানটি উদ্ধার করা হয়েছে।

আটককৃতরা হলো যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলার আন্দুলবাড়িয়া গ্রামের শ্রীবাস বিশ্বাসের ছেলে সুমন্ত বিশ্বাস, (১৫) ও একই গ্রারে রেজাউল ইসলামের ছেলে নাসিম রেজা (২০)। কালিয়া থানার ওসি মোঃ কনি মিয়া জানান, কালিয়া থানার ওসি (অপারেশন) আমানুল্লাহর নেতৃত্বে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে সুমন্ত বিশ্বাস ও নাসিম নামে দুই তরুনকে আটক করা হয়। 

তাদের স্বীকারোক্তি মোতাবেক রাত সাড়ে ৮টার দিকে কালিয়া উপজেলার চাঁচুড়ি এলাকার একটি বাশবাগান থেকে খোয়া যাওয়া অস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়।আটকৃতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।উল্লেখ্য যে, গত ৫এপ্রিল সন্ধ্যা ৭টার দিকে কালিয়া উপজেলার পুরুলিয়া ইউনিয়নের চন্দ্রপুর গ্রামের নজরুল ইসলাম তার বাড়ির সামনে থেকে তার নিজের ব্যবহৃত শুটিং গানটি (আগ্নেয়অস্ত্র) ছিনতাই করে দুবৃত্তরা। 

এসময় নজরুলকে লক্ষ্য করে গুলি করা হয়। গুলি নজরুলের বামপাশের চোয়ালে বিদ্ধ হয়। আহত অবস্থায় নজরুল ইসলামকে প্রথমে নড়াইল সদর হাসপাতালে পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে খুলনাতে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

নড়াইলে রোগীকের ও+রক্তের পরিবর্তে ‘বি +রক্ত পুষ করায় ক্লিনিক ঘেরাও

নড়াইলে রোগীকের ও+রক্তের পরিবর্তে ‘বি +রক্ত পুষ করায় ক্লিনিক ঘেরাও

মো:আজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টার নড়াইলঃ নড়াইলের লোহাগড়া শহরের মোর্শেদা ক্লিনিকে একজন রোগীর শরীরে 'ও পজেটিভ' রক্তের পরিবর্তে 'বি পজেটিভ' রক্ত পুষ করায় ওই ক্লিনিক মালিক জনরোষের শিকার হয়েছেন। পরে পুলিশের উপস্থিতিতে ক্লিনিক মালিককে অবরুদ্ধ অবস্থা থেকে উদ্ধার করা হয়। 

এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়েছে। অভিযোগ ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে যে, উপজেলার ইতনা ইউনিয়নের পাংখারচর গ্রামের আরকান মোল্যা ওরফে ওলিয়ারের স্ত্রী আকলিমা বেগম খুশি,(৪৫) জরায়ুতে টিউমার অপারেশন করার জন্য গত শুক্রবার (২ এপ্রিল) শহরের মোর্শেদা ক্লিনিকে কর্তৃপক্ষের সাথে ১৫ হজার টাকা চুক্তিতে  ভর্তি হন। ভর্তির পর ডা: তাজরুল ইসলাম (তাজ) কে দিয়ে অপারেশন সম্পন্ন করেন। 

আকলিমা বেগম খুশির ভাই সোহেল রানা অভিযোগ করে বলেন, 'সকালে এক দফা অপারেশনের পর পূনরায় সন্ধ্যার দিকে ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ ওই ডাক্তারের তত্ত্বাবধানে ফের আমার বোনকে দ্বিতীয়বার অপারেশন করেন। দ্বিতীয় দফা অপারেশন শেষে রোগীর জরায়ুতে রক্তপাত শুরু হলে শরীরে রক্তশূণ্যতা দেখা দেয়। 

এ সময় ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ আমাকে জানায় রোগীর শরীরে রক্তের প্রয়োজন। তিনি আরো অভিযোগ করে বলেন, আমার বোনের রক্তের গ্রুপ 'ও পজেটিভ' কিন্তু ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ কোন রকম পরীক্ষা-নিরীক্ষা ছাড়াই আমার বোনের শরীরে চার ব্যাগ 'বি পজেটিভ' রক্ত পুষ করেন। 

এতে করে আমার বোনের শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটে। এদিকে মঙ্গলবার ৬/ তারিখ রাত ৮ টার দিকে ওই রোগীর অবস্থা আশংকাজনক হলে রোগীর আত্বীয়-স্বজনসহ এলাকাবাসী ওই ক্লিনিক ঘেরাও করে ক্লিনিকের মালিক জাকির হোসেনকে অবরুদ্ধ করে রাখে। খবর পেয়ে লোহাগড়া থানার এসআই সাইফুল ইসলামেরর নেতৃত্বে এএসআই বাচ্চু সহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন। 

ওই রাতেই রোগীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা সিটি মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মোর্শেদা ক্লিনিকের মালিক জাকির হোসেন সৃষ্ট ঘটনার কোন সদুত্তর দিতে পারেনি। আকলিমা বেগম খুশির ভাই সোহেল রানা আরো বলেন, আমার বোন সুস্থ্য হলে আমরা আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করব। এদিকে এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

স্বাধীনতা দিবসে বিএনপির মিছিলে যাওয়ার অপরাধে বিএনপির কর্মীকে জখম

স্বাধীনতা দিবসে বিএনপির মিছিলে যাওয়ার অপরাধে বিএনপির কর্মীকে জখম

সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ স্বাধীনতা দিবসে বিএনপির মিছিলে যাওয়ার অপরাধে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার বনখিদ্দা গ্রামে ৩ বিএনপি কর্মীকে মারধর করে যখম করেছে আওয়ামী সমর্থক এক ইউপি মেম্বর। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। হামলায় আহতরা হলেন, বনখিদ্দা গ্রামের খোকন হোসেন, তার ছেলে নয়ন হোসেন ও নওশের আলী। এরমধ্যে নওশের আলীর পায়ে চারটি কোপের চিহ্ন রয়েছে। তিনি কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আহত নওশের আলী অভিযোগ করে বলেন, ২৬ মার্চ স্বাধীনতা দিবসে বিএনপির মিছিলে যাওয়ায় মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তার বাড়িতে হামলা করা হয়। স্থানীয় ইউপি মেম্বর ইকবাল হোসেন এই হামলার নেতৃত্ব দেন বলে তিনি অভিযোগ করেন। বিষয়টি নিয়ে কেন্ত্রীয় স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম ফিরোজ অভিযোগ করেন, স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে কালীগঞ্জ উপজেলা বিএনপি শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়। সেই শোভাযাত্রায় অংশ গ্রহন করার অপরাধে আওয়ামী লীগের লোকজন বিএনপির নেতাকর্মীদের উপর মঙ্গলবার রাতে হামলা চালিয়ে বাড়িঘর ভাংচুরসহ নওশের আলী নামে একজনকে কুপিয়ে জখম করে। এ সময় আরো দুইজনকে মারপিট করা হয়। তিনি এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান। কালীগঞ্জ থানার ওসি মুহাঃ মাহফুজুর রহমান মিয়া জানান, এ ঘটনায় এখনো কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে অবশ্যই তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ঘটনা জানতে ইউপি সদস্য ইকবাল হোসেনের (০১৭১৮-২৬১৪০৯) মোবাইলে একাধিকবার ফোন দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

ভারতে প্রবেশের সময় মহেশপুর সীমান্ত থেকে ১০ বাংলাদেশী আটক

ভারতে প্রবেশের সময় মহেশপুর সীমান্ত থেকে ১০ বাংলাদেশী আটক

সম্রাট হোসেন , ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ অবৈধ ভাবে ভারতে প্রবেশের সময় ঝিনাইদহের মহেশপুর সীমান্ত থেকে ১০ বাংলাদেশীকে আটক করেছে মহেশপুরের ৫৮ বিজিবি। বুধবার ভোরে মহেশপুর উপজেলার মকরধ্বজপুর মাঠে থেকে মাটিলা ক্যাম্পের বিজিবি সদস্যরা তাদের আটক করে। আটককৃতদের মধ্যে ৫ জন পুরুষ ও ৫ জন নারী রয়েছে। বুধবার দুপুরে ৫৮ বিজিবির এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। আটককৃতরা হলেন, শরিয়তপুরের চাঁন মিয়া (৫২), ঢাকা তাঁতি বাজারের অসিত ঘোষ (৪৯), মুন্সিগঞ্জের সৌমিক আহম্মেদ (১৯), মোঃ মাইনুল ইসলাম (২৩), যশোরের মোঃ তরিকুল (১৯), শরিয়তপুরের মোছাঃ জাহানারা বেগম (৫৪), ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের সাতগাছিয়া গ্রামের জুহুরা বেগম (৩৪, যশোর মনিরামপুরের মোছাঃ সালমা (২১), একই উপজেলার মোছাঃ মনজিনা (৩২) ও চট্রগ্রামের হাটহাজারীর মোছাঃ কহিনুর(২২)। এদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ পাসপোর্ট অধ্যাদেশ ১৯৭৩ এর ১১(১)(গ) ধারায় মহেশপুর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বদলগাছীতে পটল বিক্রি করে বাড়ী ফিরা হলনা কৃষকের

বদলগাছীতে পটল বিক্রি করে বাড়ী  ফিরা হলনা কৃষকের

রহমতউল্লাহ,নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁর বদলগাছী বাজারে ক্ষেতের পটল বিক্রি করে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেন ১ পটল চাষী। জানা যায়, পার্শ্ববর্তী মহাদেবপুর উপজেলার নাউরাইল গ্রামের আব্দুল খালেক (৫০) তার ক্ষেতের পটল বিক্রি করতে বুধবার সকালে বদলগাছী বাজারে আসেন।

সকাল ১০ টার পর বাইসাইকেল যোগে বাড়ি ফেরার পথে উপজেলা আবহাওয়া অফিসের সামনে এক মোটরসাইকেল আরোহী সজোড়ে ধাক্কা দিলে সে ছিটকে পড়ে গুরুতরভাবে আহত হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু বরণ করেন এবং মোটরসাইকেল আরোহী সেও আহত হন।

এলাকাবাসী ছুটে এসে আহত দুজনকেই বদলগাছী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্রে ভর্তি করলে কর্তব্যরত ডাক্তার আব্দুল খালেককে মৃত ঘোষণা করেন। মৃতের ছেলে আবু হাসান জানায়, তার বাবা পটল নিয়ে সকালে বদলগাছী বাজারে এসেছিল।

মোটরসাইকেল আরোহী উপজেলার সোহাসা গ্রামের মোহসিন কে বদলগাছী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্রে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে নওগাঁ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। তথ্য সংগ্রহকালে তাৎক্ষণিকভাবে বদলগাছী থানার এসআই কামরুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

আহসানুল আলম ইউনিয়ন ব্যাংক লিঃ চেয়ারম্যান নির্বাচিত

 আহসানুল আলম  ইউনিয়ন ব্যাংক লিঃ চেয়ারম্যান নির্বাচিত

সেলিম চৌধুরী পটিয়াঃ- দেশের শীর্ষ শিল্পতি
এস আলম গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সাইফুল আলম মাসুদ সাহেব এর সুযোগ্য পুএ আহসানুল আলম ইউনিয়ন  ব্যাংকের ৬৬ তম বোর্ড  সভায় সর্বসম্মতিক্রমে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।তিনি চট্টগ্রামের পটিয়ায় এক  সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। আহসানুল আলম ২০০৪ সাল থেকে এস আলম অ্যান্ড কোং এর চিফ এক্সিকিউটিভ হিসেবে কর্মরত থেকে তার পরিবারকে সহযোগিতা করে আসছেন। আহসানুল আলম জেনেসিস এন্টারপ্রাইজ এর স্বত্ত্বাধিকারী ও হাসান আবাসন (প্রা.) লিমিটেডের চেয়ারম্যান। তিনি টেক্সটাইলস এক্সোসোরিজ অ্যান্ড এ্যাপারেলস লিমিটেড ও ওয়েস্টার্ন ডিজাইনস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক। এছাড়াও তিনি ইনফিনিয়া গ্রুপের চেয়ারম্যান ও নরিনকো ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেডের সম্মানিত পরিচালক। আহসানুল আলম তার গতিশীল নেতৃত্বের জন্য টেক্সটাইল, গার্মেন্টস এবং ট্রেডিংখাতে সফল ব্যবসায়ী হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছেন। পটিয়ার কৃতি সন্তান আহসানুল আলম ইউনিয়ন ব্যংকের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ায় বিভিন্ন সামাজিক রাজনৈতিক ক্রিড়া সংগঠনের নেতৃবৃন্দ পৃথক পৃথক বিবৃতিতে অভিনন্দন জানিয়েছেন। বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, পটিয়া গর্ব বেকার শিক্ষিত যুবকদের কর্মসংস্থান সৃষ্টির কারিগর আলহাজ্ব  সাইফুল আলম মাসুদ সাহেব পটিয়ার মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন ও কর্মসংস্থান সৃষ্টি করে আজীবন পটিয়ার  মানুষের  মনিকোটায় স্থান করে নিয়েছেন। তার সুযোগ্য উত্তরসূরি আহসানুল আলম  ইউনিয়ন ব্যংকের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ায় পটিয়াবাসী গর্বিত। আহসানুল আলম ও আকিজ উদ্দিন চৌধুরী নেতৃত্বে পটিয়ার উন্নয়ন কর্মসংস্থান সৃষ্টির আরোি ও বেশি এগিয়ে যাবে বলে আশাবাদী।  মহান রাব্বুল আলামীনের  দরবারে শোকরিয়া জ্ঞাপন করেন। 

সংবাদ প্রকাশের পর প্রকাশ্যে নিলামে কুষ্টিয়ায় ৫০হাজার টাকার হাট এবার ২ লক্ষ ৬১ হাজার

সংবাদ প্রকাশের পর প্রকাশ্যে নিলামে কুষ্টিয়ায় ৫০হাজার টাকার হাট এবার ২ লক্ষ ৬১ হাজার

কুষ্টিয়া জেলা প্রতিনিধি //গত ১ যুগ ধরে সাতবাড়ীয়া ভবানীপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দৈনিক বিকালের হাটবাজার বিনা নিলামে ম্যানেজিং কমিটিকে ম্যানেজ করে, একটি সিন্ডিকেটের ম্যাধ্যমে চলে আসছিল।
এতেকরে অর্থনৈতিকভাবে গত ১ যুগে ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্থ হয় বিদ্যালয়টি।

বিদ্যালয়ের উন্নয়নের স্বার্থে বিষয়টি এই প্রতিবেদকসহ স্থানীয় সাংবাদিকরা অনুসন্ধান শুরু করে। এবং প্রতিবেদন প্রকাশ করার মাত্র ৭ দিনের মাথায় গতকাল মঙ্গলবার বিকাল ৩ টায় প্রধান শিক্ষকের কার্যালয়ে প্রকাশ্যে নিলাম অনুষ্ঠিত হয়।

এতে ২ লক্ষ ৬১ হাজার টাকায় সর্বোচ্চ নিলাম ডাকে প্রথম হন সাতবাড়ীয়া দক্ষিনভবানীপুরের ইয়ানূস আলী। যা গতবারের ৫০ হাজার টাকার
তুলনায় ৫ গুনেরও অধিক।

এব্যপারে প্রধান শিক্ষক অাবু তাহেরের মুখোমুখি হলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, অবশ্যই স্বচ্ছতা ফিরে এসেছে।  তবে এতোদিন স্বচ্ছতা কেন রক্ষিত ছিলনা? সাংবাদিকদের এই প্রশ্নের জবাবে তিনি ম্যানেজিং কমিটির কাঁধে  এর দায়ভার চাপিয়ে বক্তব্য দেন।

লকডাউনের সীমিত সময়ের জন্য হলেও দোকান খোলার অনুমতি দিয়ে আমাদের বাঁচান

লকডাউনের সীমিত সময়ের জন্য হলেও দোকান খোলার অনুমতি দিয়ে আমাদের বাঁচান


মামুনুর রশিদ,দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ॥ ৭ এপ্রিল বুধবার দিনাজপুর জেলা দোকান মালিক ব্যবসায়ী সমিতির সার্বিক প্রচারে প্রায় ২২টি মার্কেটের দোকান ব্যবসায়ী মালিকেরা প্রধানমন্ত্রী সমীপে দোকান ব্যবসায়ীদে বাঁচান শিরোনামে ব্যানার টাঙ্গিয়ে অনুরোধ জানিয়েছে।
নেতৃবৃন্দরা বলেন, লকডাউনে সীমিত সময়ের জন্য হলেও দোকান খোলার অনুমতি প্রদানের জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করছি। আমরা স্বাস্থ্য বিধি মেনে, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এবং ক্রেতা-বিক্রেতাদের মাক্স ব্যবহার নিশ্চিত করে আমরা ব্যবসা করতে চাই। তাদে আমরা বাঁচবো এবং আমাদের ব্যবসার সাথে জড়িত কর্মচারী ও তাদের পরিবারের সদস্যরা বেঁচে যাবে। ২২টি মার্কেটের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো জাবেদ সুপার মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতি, পুরাতন বাহাদুর বাজার ব্যবসায়ী সমিতি, নিমনগর ফুলবাড়ী বাসষ্ট্যান্ড ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতি, এলুমিনিয়াম, তামা-পিতল ক্রোকারিজ ব্যবসায়ী সমিতি, দিনাজপুর ইলেকট্রিক্যাল মার্কেট এসোসিয়েশন, লুৎফুন নেছা টাওয়ার এন্ড শপিং কমপ্লেক্স, আব্দুর রহিম সুপার মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতি, গুলশান মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতি, লিলিমোড় ও পাহাড়পুর রোড দোকান মালিক সমিতি, বাংলাদেশ রেঁস্তোরা মালিক সমিতি, বাংলাদেশ জুয়েলারী সমিতি, দিনাজপুর লৌহজাতদ্রব্য ও সিমেন্ট ব্যবসায়ী সমিতি, হাসনা প্লাজা ব্যবসায়িক মালিক সমিতি, সেনিটারী ও টাইলস্ ব্যবসায়ী মালিক সমিতি, উত্তরা সুপার মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতি, দিনাজপুর জেলা বেকারী মালিক সমিতি, বালুবাড়ী পশুহাসপাতাল মোড় দোকান ব্যবসায়ী  সমিতির মালিকরা প্রধানমন্ত্রী বরাবর দোকান খোলার অনুমতি চেয়ে ব্যানার টাঙ্গিয়ে অনুরোধ করেছেন।

হুইপ শামসুল হক চৌধুরী'র হস্তক্ষেপ কামনা পটিয়ায় সাংবাদিক এর বড় ভাইকে হত্যার হুমকি'র অভিযোগ

হুইপ শামসুল হক চৌধুরী'র হস্তক্ষেপ কামনা পটিয়ায় সাংবাদিক এর বড় ভাইকে হত্যার হুমকি'র অভিযোগ

পটিয়া  (চট্টগ্রাম)  প্রতিনিধিঃ- চট্টগ্রামের পটিয়ায় পুর্বশক্রুতার জের ধরে গত ৪ এপ্রিল রাত সাড়ে ৮ টার সময় কর্মস্থল থেকে কাজ শেষে  দৈনিক আলোকিত বাংলাদেশ পএিকার পটিয়া প্রতিনিধি সাংবাদিক  মোঃ গোলাম কাদের  বাড়িতে ফেরার পথে পটিয়া পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ড  গোলামুর রহমান বাড়ি সংলগ্ন  এলাকায় সন্রাসীরা এলোপাতাড়ি পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এ ঘটনায় সাংবাদিক  গেলাম কাদের  এর বড় ভাই মোঃ নুর কাদের 

বাদী হয়ে ৫ এপ্রিল  পটিয়া থানায় ৪ জনের  বিরুদ্ধে   একটি হত্যার চেষ্টা  মামলা নং ০৭/২১ ইং দায়ের করে।  উক্ত মামলার জের ধরে  বিবাদীগনের পক্ষ নিয়ে  ৬ এপ্রিল দুপুর ২ টায় এবং বিকাল সাড়ে ৫ টায় মোঃ নুর কাদের কে মামলা প্রত্যাহার না করলে স্বরপরিবারকে জানে মেরে ফেলার হুমকি দেয়  রওশন আকতার মুন্নী। এসংক্রান্ত বিষয়ে প্রতিকার প্রার্থনা করে নুর কাদের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে  পটিয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে। সুএে জানাযায়, সাংবাদিক গেলালাম কাদের  পরিবারের সাথে মুন্নী গং এর মধ্যে পুর্বের থেকে  জায়গা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এনিয়ে পটিয়া থানায় ও উপজেলার চেয়ারম্যান মধ্যেস্তায় বৈঠক করে সমাধান করা হয়।এছাড়াও উক্ত বিরোধী জায়গা নিয়ে আদালতে মামলা চলমান রয়েছে। কিন্তু প্রতিপক্ষরা তা  না মেনে সাংবাদিক এর উপর হামলা করে। এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে সাংবাদিক এর বড় ভাই নুর কাদের মামলা দায়ের করলে থাকেও হত্যার হুমকি ধামকি দিচ্ছে বলে জানাগেছে । নুর কাদের বিষয়টি পটিয়ার এমপি ও  জাতীয় সংসদের হুইপ আলহাজ্ব শামসুল হক চৌধুরী সুদৃষ্টি কামনা করেছে। বর্তমানে সাংবাদিক গোলাম  কাদের এর পরিবার  চরম নিরাপত্তারহীনতায় রয়েছে বলে সাংবাদিক গোলাম কাদের পিতা মোঃ ইসমাইল জানান। তারা এবিষয়ে পটিয়া থানার ওসি রেজাউল করিম মজুমদার হস্তক্ষেপ কামনা করেন। 

লোহাগড়ার পল্লীতে ১০ বছরের শিশুর শ্লীলতাহানী ৭০ বছরের বৃদ্ধ আটক

লোহাগড়ার পল্লীতে ১০ বছরের শিশুর শ্লীলতাহানী ৭০ বছরের বৃদ্ধ আটক
ধর্ষক আটক

মোঃআজিজুর বিশ্বাস,স্টাফ রিপোর্টার নড়াইলঃ 
নড়াইলের লোহাগড়ায় ১০ বছরের এক শিশুর শ্লীলতাহানীর অভিযোগে হান্নান শেখ (৭০) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে লোহাগড়া থানা পুলিশ।আটককৃত হান্নান শেখ লোহাগড়া উপজেলার নলদী ইউনিয়নের মিঠাপুর গ্রামের বাসিন্দা। মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় আসামীর বাড়ি পাশে চিত্রা নদীর নির্জন স্থান থেকে তাকে কে আটক করা হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ১ এপ্রিল সকালে প্রতিবেশী এক কন্যা ওই শিশু ডাটা (সবজি) আনার জন্য  ওই হান্নান শেখ এর বাড়ির পাশের সবজি ক্ষেতে যায়। এ সময় হান্নান শেখ তাকে একা পেয়ে শ্লীলতাহানী  ঘটনা ঘটায় এরপর শিশুটি বাড়িতে এসে ঘটনাটি তার অভিভাবকদের জানায়। এ ঘটনায় শিশুর মা হাসনা হেনা বাদী হয় বুধবার (৭ এপ্রিল) সকালে লোহাগড়া থানায় হান্নান শেখ কে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

লোহাগড়া থানার ওসি (তদন্ত) মাহমুদুর রহমান জানান  ১০ বছরের একটি মেয়েকে শ্লীলতাহানী চেষ্টার ঘটনায় শিশুর মা বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন, আসামীকে আটক করা হয়েছে। এবং আসামী কে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

একুশে পদকপ্রাপ্ত ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর মৃত্যুতে পরিবেশমন্ত্রীর শোক

একুশে পদকপ্রাপ্ত ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর মৃত্যুতে পরিবেশমন্ত্রীর শোক

আকরাম হোসাইন মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি :: দেশবরেণ্য লোকসংগীত শিল্পী,একুশে পদকপ্রাপ্ত ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর মৃত্যুতে পরিবেশমন্ত্রীর শোক ---
একুশে পদকপ্রাপ্ত বরেণ্য লোকশিল্পী বীর মুক্তিযোদ্ধা ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মোঃ শাহাব উদ্দিন এমপি। মন্ত্রী এক শোকবার্তায় পরিবেশ মন্ত্রী বলেন, দেশবরেণ্য লোকসংগীত শিল্পী ও গবেষক ইন্দ্রমোহন বাজবংশী দেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গনে এক বিশেষ স্থান দখল করে ছিলেন। লোকগানের বিকাশে অনন্যসাধারণ অবদান রাখায় তিনি দীর্ঘদিন স্মরণীয় হয়ে থাকবেন। স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের অন্যতম শিল্পী ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর জাগরণের গান বীর মুক্তিযোদ্ধাদের উৎসাহ যোগাত। 

মন্ত্রী ইন্দ্রমোহন রাজবংশীর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেন এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।উল্লেখ্য, লোকগানের বরেণ্য শিল্পী ইন্দ্রমোহন রাজবংশী আজ (৭ এপ্রিল) সকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

মুসলিম উম্মাহর কাছে খোলা চিঠি

মুসলিম উম্মাহর কাছে খোলা চিঠি

বর্তমান পরিস্থিতি নাটকের চেয়ে ও নাটকীয়।লকডাউন দিয়ে আর কতো নাটক করবেন।এবার লকডাউন বন্ধ করুন নাটক বাঁধ দেন। রাস্তা ঘাট, মার্কেট,বাস স্টেশন,সিএনজি স্টেশন,গণভবন, দলীয় কার্যালয়,রেস্টুরেন্টে,খেলার মাঠ,বাজার, দোকান পাট,কোথাও লকডাউন এর নিয়ম কানুন মানুষ মানছে না।শুধু মসজিদ,মাদ্রাসা,স্কুল,কলেজে
লকডাউন। করোনা ভাইরাসের নাম ধরে আর কতো নাটক করবেন।

বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা সহ দেশজুড়ে বিভিন্ন স্থানে বই মেলা খোলা,অফিস,কলকারখানা, ফ্যাক্টরী,সহ হরেক রকমের কর্মসংস্থান খোলা।
লকডাউনের নামে শুধু মসজিদ,মাদ্রাসা সহ দেশের প্রায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলো বন্ধ।এই ধরনের নাটকীয় লকডাউন দেওয়ার কি প্রয়োজন, এইসব উদ্ভট সিদ্ধান্ত গুলো করোনা ভাইরাস প্রতিরোধের নামে দেশের জনসাধারণের সাথে এক ধরনের রহস্য করা।

আমাদের দাবী দেশের সকল সরকারী চাকুরীজীবীদের বেতন-ভাতা বন্ধ করে লকডাউন ঘোষনা দেন,তখনই বুঝবো কতজন দেশপ্রেমিক আছে লকডাউনের পক্ষে।আমরা এখন আর বোকার স্বর্গে বসবাস করছি না। আমরা বুঝি আপনারা কার প্রেসক্রিপশন বাস্তবায়ন করার নিমিত্তে মাদ্রাসা,স্কুল-কলেজ শিক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংস করতে এবং পবিত্র মাহে রমজান মাসে ধর্ম প্রাণ মুসলমানদেরকে মসজিদ থেকে দূরে রাখতেই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধের নামে নাটক শুরু করে লকডাউন ঘোষণা দিয়েছেন।আপনাদের চুলকানি আমরা এখন বুঝি।বই মেলা খোলা,ব্যাংক খোলা।চুলকানি শুধু মাদ্রাসা,মসজিদ, স্কুল-কলেজ নিয়ে।

লকডাউন করে গত বছরের খতমে তারাবী পড়তে দেওয়া হয়নি।বাংলাদেশে প্রায় সকল মসজিদ বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল।কিন্তু এবার করোনা ভাইরাসের দোহাই দিয়ে মসজিদ মাদ্রাসা বন্ধ রাখবেন না।আর বরদাস্ত হচ্ছে না।
খেয়াল করে দেখলাম কিছু দিন ধরে মাদ্রাসা খোলা মাদ্রাসার ছাত্র সবগুলো একসাথে একই জায়গায় বসে কোরআন হেফজ করছে, এবং খাবারের সময় একসাথে তিন থেকে চার জন মিলে একটি প্লেটে খাবার খেল।আমার মনে হয়েছিল করোনা ভাইরাস হওয়া কথা ছিল তাদের। তাঁরা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে শতশত ছাত্র প্রতিদিন মরে যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তাঁরা মরে যায় নি।এখন পর্যন্ত শুনলাম না কোন মাদ্রাসায় একটা ছাত্র ও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মরতে।আসল কথা হলো এটা কোন করোনা ভাইরাস নয়।এটা  মহান আল্লাহ পাকের নিকট থেকে পাঠানো আজব।
এই আজাবে কাফের মুশরিক মুনাফিক মুসলিম সবাই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারে। কিন্তু কাফের, মুশরিক,মুনাফিকদের জন্য আজাব, মুসলিমদের জন্য পরীক্ষা।
সুতরাং:-করোনা ভাইরাসের দোহাই দিয়ে মসজিদ মাদ্রাসা বন্ধ রাখবেন না।বছরে একটি মাস ত্রিশ দিন মাহে রমজান।এই মাস কুরআন নাজিলের মাস।এই মাস ইবাদতের মাস।তাই করোনা ভাইরাসের দোহায় দিয়ে এই মাসে মসজিদ,মাদ্রাসা বন্ধ করবেন না।আমাদের কাছ থেকে একটা ইবাদতের মাস চলে যাবে এটা আমরা চাই না।করোনা ভাইরাসের নামে মসজিদ মাদ্রাসা কে বন্ধ করে দেওয়ার ষড়যন্ত্র করছে।ওদের মূল টার্গেট হলো ইসলাম ধর্মকে বাংলাদেশের মানচিত্র থেকে মুছে ফেলা।এটা হচ্ছে ইসলাম বিদ্বেষীদের ষড়যন্ত্রের ফাঁদ।এই চক্রান্তের ফাঁদে পা দিবেন না।কারণ মার্কেট,গার্মেন্টস,রাস্তা ঘাট,খেলার মাঠ, দোকানপাট কোথাও করোনা আছে বলে কিছু ইসলাম বিদ্বেষী মিডিয়া বিশ্বাস করে না।তাদের মতে করোনা ভাইরাস আছে শুধু মসজিদ,মাদ্রাসা আর জানাজায়।

তাই আমার বলবো খেলার মাঠ,রাস্তা ঘাট, মার্কেট,বাস স্টেশন,সিএনজি স্টেশন,গণভবন, দলীয় কার্যালয়,রেস্টুরেন্টে,বাজার হাট,দোকান পাট, খোলা রাখলে।অবশ্যই মসজিদ,মাদ্রাসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখতে হবে। তাই আমি বলবো মসজিদ,মাদ্রাসার কমিটি সভাপতি,সেক্রেটারি,সদস্য বিন্দ।আপনারা একটু শক্ত হোন।শক্ত হাতে বৈঠা ধরুন। যতই বাধা আসুক না কেন মসজিদ,মাদ্রাসা বন্ধ করা যাবে না।মসজিদে তারাবির নামাজ হবে,মাদ্রাসায় পড়াশোনা হবে।এই শপথ নিন।ইসলাম বিদ্বেষী ষড়যন্ত্র রুখে দিন। এবং আমাদেরকে সচেতন থাকা জরুরী। আমরা সবাই সচেতন থাকবো।(ইনশাআল্লাহ)
আল্লাহ আমাদের সকলকে বুঝার তাওফিক দান করুক।

লেখক:-আকরাম হোসাইন
'ব্যবস্থাপনা সম্পাদক-দৈনিক খবরের ডাকঘর'
'মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি-দৈনিক কপোতাক্ষ নিউজ'
'মৌলভীবাজার জেলা প্রতিনিধি-দৈনিক ইতি কথা'
'প্রতিনিধি দৈনিক রবিনিউজ.কম'

আজ ঝিনাইদহে ১৮ জন করোনা আক্রান্ত

আজ ঝিনাইদহে ১৮ জন করোনা আক্রান্ত

সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ৭ই এপ্রিল,ঝিনাইদহে গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে ১৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় ২৫২৩ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন।

বুধবার সকালে ঝিনাইদহ সিভিল সার্জন ডাঃ সেলিনা বেগম জানান, সকালে ঝিনাইদহ ল্যাব ও কুষ্টিয়া ল্যাব থেকে ৭৫ টি নমুনার রিপোর্টে নতুন ১৮ জন আক্রান্ত হয়েছেন। তন্মধ্যে  সদরে ১১, শৈলকুপায় ২,কালীগঞ্জে ৩, মহেশপুরে ১ ও কোটচাঁদপুরে ১ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২৫২৩ জন। এরমধ্যে সুস্থ্য হয়েছেন ২৩৫৭ জন। এ পর্যন্ত জেলায় করোনা ভাইরাসে ৪০ জন মৃত্যুবরণ করেছে।

ঝিনাইদহের ৬ টি উপজেলায় এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ২৫২৩ জন। এরমধ্যে ঝিনাইদহ সদরে ১৩৩০ জন,শৈলকুপায় ২৯৫ জন,হরিনাকুন্ডুতে ১৩৬ জন, কালীগঞ্জে ৫০৩ জন, কোটচাঁদপুরে ১৫১ জন ও মহেশপুরে ১০৮ জন আক্রান্ত হয়েছেন।

আক্রান্তদের এলাকাসমূহঃ
»সদর (১১)
১.তেতুলতলা,২.বকুলতলা,৩.মহিলা কলেজ পাড়া,৪.পবহাটি ,৫.বাইপাস রোড,৬.চাকলাপাড়া,৭.হামদহ(২),৮.খাজুরা,৯.স্টেডিয়াম পাড়া,১০.জাদুরিয়া

»শৈলকূপা (২)
১.চাঁদপুর,২.হাবিবপুর

»কোটচাঁদপুর (১) শেরখালি

»মহেশপুর (১) উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

 »কালীগঞ্জ (৩)
১.ফয়লা,২.উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ,৩.শিবনগর

ঝিনাইদহে সেই প্রতারক বুরহান উদ্দিন গ্রেফতার

ঝিনাইদহে সেই প্রতারক বুরহান উদ্দিন গ্রেফতার

 ঝিনাইদহ প্রতিনিধি-
ঝিনাইদহে ভালোবাসার ফাঁদ পেতে ৩ বছর ঘুরে এক নারী উন্নয়ন কর্মীকে বিয়ে করে তার কাছ থেকে ১১ লাখ টাকা আত্মসাৎ করা প্রতারক বুরহান উদ্দিনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
গত সোমবার প্রতারণা ও নির্যাতনের শিকার নাজনীন সুলতানা বাদী হয়ে ঝিনাইদহ সদর থানায় মামলা দায়ের করলে মঙ্গলবার তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত প্রতারক বুরহান উদ্দিন উপজেলার কালীচরণপুর গ্রামের মৃত আব্দুর রশিদের ছেলে
নাজনীন সুলতানা জানান, ২০২০ সালের ১৭ মার্চ প্রেমের ফাঁদে ফেলে তাকে বিয়ে করে বুরহান উদ্দিন। বিয়ের পর কিছুদিন তাদের সম্পর্ক ভালো ছিল। শহরের হামদহ ঘোষপাড়ায় বাসা ভাড়া নিয়ে বসবাস করে আসছিল। নানা ভাবে নাজনীনকে ভুলিয়ে তার কাছে থাকা প্রায় ১১ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয় বুরহান। স্ত্রী নাজনীনের টাকা নিয়ে শহরের মুন্সী মার্কেটে এআর বস্ত্র বিতান নামের একটি দোকানও চালাচ্ছে বুরহান। টাকা নেওয়ার পর আরও টাকা দাবী করে বুরহান। টাকা দিতে না পারলে নাজনীনকে নানা ভাবে নির্যাতন শুরু করে। টাকা না দিতে পারায় গত ১৬ মার্চ তাকে বেধঢ়ক মারধর করে। এ ঘটনার পর সংসার করতে চাওয়ায় তখনও মুখ বুজে সহ্য করেন তিনি। নিজের টাকা আর স্বামীর অধিকার পেতে মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরেছেন। এরপরও থেমে ছিল না বুরহান। ভাড়া বাসায় এতে প্রতিনিয়ত মারধর ও নির্যাতন করতো। তালাক দেওয়ার জন্য চাপ দিত। উপায় না পেয়ে নাজনীন সুলতানা বাদী হয়ে বুরহান উদ্দিনসহ ৩ জনকে আসামী করে সদর থানায় একটি মামলা দায়ের করে।
নাজনীন সুলতানা বলেন, মামলা দায়েরের পর প্রধান আসামীকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এজন্য ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার, সদর থানার ওসিকে ধন্যবাদ জানায়। সেই সাথে বাকি আসামীদের যেত দ্রুত গ্রেফতার করা হয় এই অনুরোধ রাখছি।
ঝিনাইদহ সদর থানার ওসি মিজানুর রহমান বুরহান উদ্দিন গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ঝিনাইদহে ১৫’শ কৃষকের মাঝে বিনামুল্যে সার ও বীজ বিতরণ

ঝিনাইদহে ১৫’শ কৃষকের মাঝে বিনামুল্যে সার ও বীজ বিতরণ



সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহে কৃষি প্রণোদনা কর্মসূচীর আওতায় ১৫'শ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামুল্যে সার ও বীজ বিতরণ করা হয়েছে।

বুধবার সকালে ঝিনাইদহ সদর উপজেলা পরিষদ চত্বরে কৃষি অফিসের পক্ষ থেকে এ প্রণোদনা বিতরণ করা হয়।

এসময় সদর উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে আসা কৃষক-কৃষাণীদের হাতে সার ও বীজ তুলে দেন জেলা প্রশাসক মজিবর রহমান।

অনুষ্ঠানে জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আজগর আলী,সদর উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. আব্দুর রশিদ,নির্বাহী কর্মকর্তা এস এম শাহিন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আরতী দত্ত, কৃষি কর্মকর্তা জাহিদুল করিম,কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা জুনায়েদ হাবীব, ইমদাদুল হাসানসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাহিদুল করিম জানান, চলতি খরিপ মৌসুমে আউশ উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে ১৫'শ কৃষকের প্রত্যেককে ৫ কেজি ব্রী ধানের বীজ ও ৩০ কেজি রাসায়নিক সার প্রদাণ করা হয়েছে।

আইসিইউ তে চিকিৎসাধীন আছেন সাবেক জামায়াতে আমীর মকবুল আহমাদ

আইসিইউ তে চিকিৎসাধীন আছেন সাবেক জামায়াতে আমীর মকবুল আহমাদ

ডা.এম.এ.মান্নান
টাংগাইল জেলা প্রতিনিধি: গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন আছেন জামায়াতের সাবেক আমির মকবুল আহমাদ। তিনি ইবনে সিনা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

ছাত্রশিবিরের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি ডা. ফখরুদ্দিন মানিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে দেয়া এক পোস্টে একথা জানিয়েছেন। হাসপাতালের বিছানায় শয্যাশয়ী মকবুল আহমাদের একটি ছবিও তিনি পোস্ট করেছেন ফেসবুকে। পোস্টে জামায়াতের বর্তমান ডা. শফিকুর রহমানের পক্ষ থেকে সাবেক আমিরের জন্য দোয়া প্রার্থনা করে তিনি লিখেছেন, সাবেক আমিরে জামায়াত মকবুল আহমাদের শারীরিক অবস্থা খুবই সংকটাপন্ন। আইসিইউতে বেশ কয়েকদিন ধরেই তিনি চিকিৎসাধীন। আজ তার অবস্থার বেশ অবনতি ঘটেছে। ছবিতে বেশ কয়েকজন জামায়াত নেতাকে দাঁড়িয়ে মোনাজাত করতেও দেখা গেছে।

মকবুল আহমাদ জামায়াতের তৃতীয় নির্বাচিত আমির। এর আগে গোলাম আযম ও মতিউর রহমান নিজামী দলটির নির্বাচিত আমির ছিলেন। এর বাইরে বিভিন্ন সময় প্রয়াত আব্বাস আলী খান, মাওলানা আবদুর রহিম দলটির ভারপ্রাপ্ত আমিরের দায়িত্বে পালন করেন। তৃতীয় ভারপ্রাপ্ত আমির হিসেবেও মকবুল আহমাদ দীর্ঘ সময় দায়িত্ব পালন করেছেন। মানবতাবিরোধী অপরাধে যুক্ত থাকার দায়ে জামায়াতের শীর্ষ নেতাদের অনুপস্থিতিতে মকবুল আহমাদ ২০১০ সালের ২৯ জুন থেকে ২০১৬ সালের অক্টোবর পর্যন্ত ভারপ্রাপ্ত আমির ছিলেন। ২০১৭ সাল থেকে নির্বাচিত আমিরের দায়িত্বে ছিলেন। পরে ২০১৯ সালে তার স্থলে নতুন আমির হন ডা. শফিকুর রহমান।

জানা গেছে, মকবুল আহমাদ ১৯৮৬ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেন। তিনি জামায়াতের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল, নায়েবে আমির হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। সর্বশেষ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেননি মকবুল আহমাদ।

সড়ক দুর্ঘটনায় অগ্রণী ব্যাংকের এজিএম নজরুল ইসলাম নিহত

সড়ক দুর্ঘটনায় অগ্রণী ব্যাংকের এজিএম নজরুল ইসলাম নিহত

সম্রাট হোসেন, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহ শহরের পরিচিত মুখ মাগুরা অগ্রণী ব্যাংকের এজিএম নজরুল ইসলাম সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার ঝিনাইদহ মাগুরা সড়কের ইছাখাদা নামক স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় তিনি আহত হন। তাকে উদ্ধার করে ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার পথে রাত আটটার দিকে তিনি মারা যান। নজরুল ইসলাম ঝিনাইদহ সদর উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়নের শ্রীমন্তপুর গ্রামের মৃত ইব্রাহিম বিশ্বাসের বড় ছেলে।  মোঃ নজরুল ইসলাম দীর্ঘদিন ধরেই ঝিনাইদহ অগ্রণী ব্যাংকে কর্মরত ছিলেন। তার মৃত্যুতে নিজের গ্রাম ও ব্যাংকপাড়ায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

শার্শায় গোগা ইউনিয়নে করোনায় আক্রান্ত: বাড়ী লকডাউন

শার্শায়  গোগা ইউনিয়নে করোনায় আক্রান্ত: বাড়ী লকডাউন

মোঃ ফজলুর রহমান  শার্শা- প্রতিনিধি: শার্শা উপজেলাধীন গোগা ইউনিয়নের সেতাই গ্রামে আফিকুর রহমান(২৬) নামের একজন করোনায় আক্রান্ত হয়েছে।
.
শার্শা উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আলিফ রেজা এ খবর নিশ্চিত করেছেন। মঙ্গলবার(৬ এপ্রিল) করোনায় আক্রান্ত রোগী আফিকুর রহমান এর বাড়ী ৬নং গোগা ইউনিয়নের সেতাই গ্রামের ৯ নং ওয়ার্ডে যান নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আলিফ রেজা।
.
তাৎক্ষণিক ভাবে আক্রান্তের বাড়ী লাল পতাকা টানিয়ে লকডাউন করে দেন তিনি। এ সময়ে শার্শা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) বদরুল আলম খান এবং থানার পুলিশ সদস্যরা নির্বাহী কর্মকর্তার সাথে ছিলেন।
.
করোনা আক্রান্ত ব্যাক্তির দ্রুত চিকিৎসা ব্যবস্থার জন্য শার্শা থানা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর চিকিৎসকদেরকে নির্দেশনা দেন ইউএনও। ঐ বাড়ীর সকলের জন্য নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য সামগ্রী ও খাদ্য খাবারের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। বাড়ীটি লকডাউন করা কালীন সেখানে উপস্থিত ছিলেন,গোগা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ,৯ নংওয়ার্ড মেম্বার কামরুজ্জামান। করোনা রোগী কে এক নজর দেখার জন্য এলাকার মানুষ সেখানে ভীড় জমায়।
.
শার্শা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) বদরুল আলম খান মুঠো ফোনে বলেন, করোনা আক্রান্ত রোগী আফিকুর রহমান বেশ কয়দিন যাবৎ সে নিজেকে অসুস্থতা বোধ করে এবং করোনা'র লক্ষণ গুলো তার শরীরে দেখতে পেয়ে পরিবারের লোকজন করোনা টেস্টের জন্য তাকে রাজধানী ঢাকায় নিয়ে যায়। সেখানকার টেস্টে গত ৪ এপ্রিল তার করোনা রিপোর্ট পজেটিভ হয়। আফিকুর রহমান পেশায় একজন কৃষক বলে জানান তিনি।
.
গোগা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ বিষয়টি শার্শা উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আলিফ রেজা কে জানালে তিনি তৎক্ষণীৎ সেখানে পৌছে বাড়ীটি লকডাউন করে দেন।

শ্যামনগর বনবিভাগের অভিযানে হরিণের চামড়া উদ্ধার

শ্যামনগর বনবিভাগের অভিযানে হরিণের চামড়া উদ্ধার

হুদা মালী শ্যামনগর প্রতিনিধি:সাতক্ষীরা,শ্যামনগরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে একটি তাজা হরিণের চামড়া উদ্ধার করেছে বনবিভাগ। কদমতলা ষ্টেশন কর্মকর্তা আবু সাঈদের নেতৃত্বে ৬ই এপ্রিল (মঙ্গলবার) রাত ১০ টায় আবাদ চন্ডিপুর খোসালখালী গ্রামের আলী মুদ্দিনের ছেলে আনছার মল্লিকের বাড়ির দুই ঘরের চিপার মধ্যে থেকে চামড়াটি উদ্ধার করে বনবিভাগ।ষ্টেশন কর্মকর্তা আবু সাঈদ বলেন, গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারি, আনছার আলীর বাড়িতে হরিণের চামড়া আছে ।সেখানে আমার সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে চামড়াটি উদ্ধার করি।সেখান থেকে কোন লোক কে আটক করতে পারিনি।